ঘোড়াঘাটের ইউএনওর অবস্থা আশঙ্কাজনক : চিকিৎসক

0
0
সর্বমোট
0
শেয়ার

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ওয়াহিদা খানমের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন রাজধানীর ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরোসায়েন্সেস ও হাসপাতালে চিকিৎসক।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে নিউরোসায়েন্সেস হাসপাতালের অধ্যাপক ডা. জাহিদ হোসেন গণমাধ্যমকে ব্রিফিংয়ে বলেন, ‘ইউএনও আশঙ্কাজনক অবস্থাতেই আছেন। ব্লাডপ্রেসার, পালস এগুলোর উন্নতি না হলে এবং উনার যদি জ্ঞানের মাত্রার আরো অবনতি হয় তাহলে কিন্তু… উনি যথেষ্ট বিপজ্জনক পরিস্থিতিতে আছেন। যেকোনো সময় একটা দুর্ঘটনা ঘটতেও পারে।’

পরিস্থিতির উন্নতি না হলে ইউএনওর অস্ত্রোপচার করা সম্ভব নয় জানিয়ে চিকিৎসক আরো বলেন, ‘উনার চিকিৎসার জন্য সাত সদস্যের মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়েছে।’

গতকাল বুধবার রাত আড়াইটার দিকে সরকারি বাসভবনের ভেন্টিলেটর ভেঙে দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটের ইউএনও ওয়াহিদা খানম ও তাঁর বাবা ওমর আলী শেখের ওপর দুর্বৃত্তরা হামলা চালায়। প্রাথমিকভাবে গুরুতর অবস্থায় তাঁদের রংপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থার অবনতি হলে তাঁদের ঢাকায় নিয়ে আসা হয়।

একদল দুর্বৃত্ত মই বেয়ে ইউএনওর সরকারি বাসায় প্রবেশ করে। তারা ইউএনও ওয়াহিদা খানমকে হাতুড়ি দিয়ে পেটাতে শুরু করে। এ সময় ইউএনওর চিৎকার শুনে ঘরে থাকা বাবা ছুটে এসে মেয়েকে বাঁচানোর চেষ্টা করলে দুর্বৃত্তরা তাঁকেও জখম করে। পরে অন্য কোয়ার্টারের বাসিন্দারা টের পেয়ে পুলিশকে খবর দেয়।

এরপর বাবা-মেয়ে দুজনকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে ঘোড়াঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তাঁদের রংপুরে পাঠানো হয়।

0
0
সর্বমোট
0
শেয়ার

Comments

comments