Logo
শিরোনাম

১১ অক্টোবর: ইতিহাসে আজকের এই দিনে

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৮ অক্টোবর ২০২১ | ৮৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
বছর শেষ হতে আরো ৮১ দিন বাকি রয়েছে। একনজরে দেখে নিন ইতিহাসের এ দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যুদিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়

আজ ১১ অক্টোবর সোমবার, গ্রেগরীয় বর্ষপঞ্জী অনুসারে বছরের ২৮৪তম (অধিবর্ষে ২৮৫তম) দিন। বছর শেষ হতে আরো ৮১ দিন বাকি রয়েছে। একনজরে দেখে নিন ইতিহাসের এ দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যুদিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়।

ঘটনাবলিঃ

০৬৩২ - ইয়ামমার যুদ্ধে ভণ্ড নবী মুসায়লাম কাজ্জাব নিহত হয়।

১৫০৩ - দ্বিতীয়বার ভারত ভ্রমণ শেষে পর্তুগিজ নাবিক ভাস্কো-দা-গামা মোজাম্বিকের তাগুসে উপস্থিত হন।

১৬৬৯ - পিটার দি গ্রেট রাশিয়ার জার হন।

১৭৩৭ - কলকাতায় যুগপৎ ভূমিকম্প ও ঘূর্ণিঝড়ে তিন লাখ লোকের মৃত্যু ঘটে।

১৮৭১ - শিকাগোর ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড আয়ত্তে আনা হয়।

১৮৯৯ - দক্ষিণ আফ্রিকায় হল্যান্ড ও বৃটিশদের মধ্যে রক্তক্ষয়ী যুদ্ধ সংঘটিত হয়।

১৯২৩ - জার্মান মুদ্রার বিপজ্জনক মুদ্রাস্ফীতি ঘটে। ১ পাউন্ডের মূল্যমান দাঁড়ায় ১ হাজার কোটি মার্ক।

১৯৩৭ - চীনের সাংহাইএ চীন আর জাপানের সেনাবাহিনীর মধ্যে তীব্র লড়াই হয়। এই লড়াইয়ে দুপক্ষের বিপুল সংখ্যক সৈন্য হতাহত হয়।

১৯৫৭ - প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে শহীদ সোহরাওয়ার্দী পদত্যাগ করেন।

১৯৬২ - চীন-ভারত যুদ্ধ শুরু হয়।

১৯৬৪ - কায়রোতে ৪৭ জোট নিরপেক্ষ দেশের সম্মেলন সমাপ্ত হয়।

১৯৭২ - চীন আর জার্মানীর মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্ক আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিষ্ঠিত হয়।

১৯৭৪ - গিনি-বিসাউ ও গ্রানাডা জাতিসংঘের সদস্যপদ লাভ করে।

১৯৭৮ - জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদে বর্ণবাদবিরোধী বিশেষ অধিবেশন অনষ্ঠিত হয়।

১৯৮৯ - তিব্বতের রাজধানী লাসায় অবস্থিত পোতালা প্রাসাদের মেরামত প্রকল্পের কাজ শুরু হয়। এই প্রকল্পে চীন সরকার ৩ দশমিক ৫ কোটি ইউয়ান বরাদ্দ করে।

১৯৯১ - সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙ্গে পড়ার কিছু আগে দেশটির গোয়েন্দা সংস্থা কেজেবির তৎপরতা বন্ধ করে দেয়া হয়।

২০০০ - লন্ডনে প্রথমবারের মত একটি মুসলিম মাধ্যমিক স্কুলকে সরকারী হিসাবে অনুমোদন দেয়া হয়।

২০০০ - চীনের ইনজিনিয়ারীন , প্রযুক্তি ও বিজ্ঞান মহলের সবচেয়ে বড় আকারের এবং সবচেয়ে উচ্চ পর্যায়ের আন্তর্জাতিক সম্মেলন আন্তর্জাতিক ইনজিনিয়ারীন, প্রযুক্তি ও বিজ্ঞান সম্মেলন পেইচিংএর গণ মহা ভবনে মহাসমারোহে অনুষ্ঠিত হয়।

২০০১ - চীনের রাষ্ট্রীয় মানদন্ডকরণ ব্যবস্থাপনা কমিটি পেইচিংএ প্রতিষ্ঠিত হয়।

২০০২ - চীনের ছ’টি বে-সামরিক বিমান পরিবহণ লিমিটেড কোম্পানি প্রতিষ্ঠার ঘোষণা করা হয়।

 

জন্মঃ

১৬১৬ - আন্দ্রিয়াস গ্রয়ফিউস, তিনি ছিলেন জার্মান কবি ও নাট্যকার।

১৭৩৮ - আর্থার ফিলিপ, তিনি ছিলেন ইংরেজ এডমিরাল ও রাজনীতিবিদ।

১৮৭১ - আব্দুল করিম, তিনি ছিলেন পুঁথি সংগ্রাহক, লেখক ও সাহিত্য বিশারদ।

১৮৭৭ - চারুচন্দ্র বন্দ্যোপাধ্যায়, তিনি ছিলেন সাহিত্যিক সমালোচক ।

১৮৮৪ - ফ্রেডরিখ কার্ল রুডলফ বার্জিয়াস, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী জার্মান বংশোদ্ভূত আর্জেন্টিনার রসায়নবিদ।

১৮৮৪ - আন্না এলিয়ানর রুজভেল্ট, তিনি ছিলেন আমেরিকান মানবাধিকার কর্মী, রাজনীতিবিদ ও ৩৯ তম ফার্স্ট লেডি।

১৮৮৫ - ফ্রাসোয়া মাউরিয়াক, তিনি ছিলেন নোবেল পুরস্কার বিজয়ী ফরাসি লেখক, কবি ও নাট্যকার।

১৯২১ - নীলিমা ইব্রাহিম, তিনি ছিলেন বাঙালি শিক্ষাবিদ।

১৯৩৬ - সি. গর্ডন ফুলেরটন, তিনি আমেরিকান কর্নেল, প্রকৌশলী ও মহাকাশচারী।

১৯৪২ - অমিতাভ বচ্চন, তিনি জনপ্রিয় ভারতীয় অভিনেতা।

১৯৫৭ - পল বওন, তিনি ইংরেজ অভিনেতা।

১৯৬৫ - রনিত রায়, তিনি ভারতীয় জনপ্রিয় ধারাবাহিক আদালতের অভিনেতা।

১৯৭৩ - তাকেশি কানেসিরো, তিনি জাপানি অভিনেতা ও গায়ক।

১৯৮৩ - ব্র্যাডলি জেমস, তিনি ইংরেজ অভিনেতা।

 

মৃত্যুঃ

১৮৫২ -গটথল্ড আইজেনস্টাইন, তিনি ছিলেন জার্মান গণিতবিদ ও অধ্যাপক।

১৮৯৬ -অ্যান্টন ব্রুকনার, তিনি ছিলেন অস্ট্রিয়ান অর্গানবাদক, সুরকার ও শিক্ষাবিদ।

১৯৩৮ -নগেন্দ্রনাথ বসু, তিনি ছিলেন বাংলা বিশ্বকোষের প্রথম প্রণেতা।

১৯৪০ -লুলুইস কোম্পানিস, তিনি ছিলেন স্প্যানিশ আইনজীবী, রাজনীতিবিদ ও কাতালোনিয়ার ১২৩ তম রাষ্ট্রপতি।

১৯৪০ -জাঁ ককতো, তিনি ছিলেন ভিটো ভল্টেরা, তিনি ছিলেন ইতালীয় গণিতবিদ ও পদার্থবিজ্ঞানী।

১৯৮৮ -বনিটা গ্রানভিলে, তিনি ছিলেন আমেরিকান অভিনেত্রী, গায়ক ও প্রযোজক।

১৯৯১ -গোলাম সামদানী কোরায়শী, তিনি ছিলেন বাংলাদেশের একজন বিশিষ্ট সহিত্যিক, গবেষক ও অনুবাদক।

১৯৯৬ -উইলিয়াম ভিখর, তিনি ছিলেন নোবেলজয়ী কানাডীয় অর্থনীতিবিদ।

২০০৭ -শ্রী চিন্ময়, তিনি ছিলেন বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত আমেরিকান আধ্যাত্মিক নেতা ও কবি।

২০১২ -ফ্রাঙ্ক আলমো, তিনি ছিলেন ফরাসি গায়ক।


আরও খবর

২৬ অক্টোবর: ইতিহাসের এই দিনে

মঙ্গলবার ২৬ অক্টোবর ২০২১

২৫ অক্টোবর: ইতিহাসের এই দিনে

সোমবার ২৫ অক্টোবর ২০২১




পুলিশের কনস্টেবল নিয়োগ পরীক্ষার সময়সূচি পরিবর্তন

প্রকাশিত:রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৮ অক্টোবর ২০২১ | ১০২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বাংলাদেশ পুলিশের ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল (টিআরসি) পদে অনুষ্ঠিতব্য নিয়োগ পরীক্ষায় কয়েকটি জেলার সময়সূচিতে আংশিক পরিবর্তন করা হয়েছে। সংশোধিত সময়সূচি অনুযায়ী সংশ্লিষ্ট জেলার পুলিশ লাইন্স মাঠে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

রোববার (১৭ অক্টোবর) সন্ধ্যায় পুলিশ সদরদপ্তরের এআইজি (মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশনস) মো. কামরুজ্জামান এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, সংশোধিত সময়সূচি অনুযায়ী কিশোরগঞ্জ, টাঙ্গাইল, সিরাজগঞ্জ ও দিনাজপুর জেলায় শারীরিক মাপ এবং ফিজিক্যাল এনডিউরেন্স টেস্ট ১৬-১৮ নভেম্বর সকাল ৮টায় অনুষ্ঠিত হবে। লিখিত পরীক্ষা হবে ১৯ নভেম্বর দুপুর ২টায়। মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষা হবে ২৬ নভেম্বর সকাল ১০টায়। পূর্বঘোষিত সময়সূচি অনুযায়ী শারীরিক মাপ ও ফিজিক্যাল এনডিউরেন্স টেস্ট হওয়ার নির্ধারিত তারিখ ছিল ২-৪ নভেম্বর সকাল ৮টায়, লিখিত পরীক্ষা ৫ নভেম্বর দুপুর ২টায় এবং মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষা ১২ নভেম্বর সকাল ১০টায়।


এদিকে কুমিল্লা, রাঙামাটি, কুষ্টিয়া, মাগুরা, পিরোজপুর, সিলেট ও শেরপুরে তিন পরীক্ষার মধ্যে শুধুমাত্র মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষার সময়সূচিতে পরিবর্তন আনা হয়েছে। এসব জেলায় শারীরিক মাপ ও ফিজিক্যাল এনডিউরেন্স টেস্ট ও লিখিত পরীক্ষা পূর্বনির্ধারিত সময়সূচি অনুযায়ী অনুষ্ঠিত হবে। পরিবর্তিত সময়সূচি অনুযায়ী মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষা হবে ১৪ নভেম্বর সকাল ১০টায়।

ঢাকা, মানিকগঞ্জ, কক্সবাজার, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, জয়পুরহাট, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, চুয়াডাঙ্গা, কুড়িগ্রাম, বরিশাল ও মৌলভীবাজারে ওই তিন পরীক্ষারই সময়সূচিতে পরিবর্তন আনা হয়েছে। সংশোধিত সময়সূচি অনুযায়ী এসব জেলায় শারীরিক মাপ ও ফিজিক্যাল এনডিউরেন্স টেস্ট হবে ১৪-১৬ নভেম্বর সকাল ৮টায়। লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ১৭ নভেম্বর দুপুর ২টায়। মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষা হবে ২৪ নভেম্বর সকাল ১০টায়।

মুন্সিগঞ্জ, মাদারীপুর, শরীয়তপুর, বরগুনা, চট্টগ্রাম, লক্ষ্মীপুর, গাইবান্ধা, পঞ্চগড়, সাতক্ষীরা, মেহেরপুর ও পাবনা জেলায় তিন পরীক্ষার সময়সূচিতে পরিবর্তন আনা হয়েছে। সংশোধিত সময়সূচি অনুযায়ী এসব জেলায় শারীরিক মাপ ও ফিজিক্যাল এনডিউরেন্স টেস্ট হবে ১৪-১৬ নভেম্বর সকাল ৮টায়। লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ১৭ নভেম্বর দুপুর ২টায়। মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষা হবে ২৪ নভেম্বর সকাল ১০টায়। পূর্বঘোষিত সময়সূচি অনুযায়ী এসব জেলায় শারীরিক মাপ ও ফিজিক্যাল এনডিউরেন্স টেস্ট হওয়ার কথা ছিল ১২-১৪ নভেম্বর সকাল ৮টায়, লিখিত পরীক্ষা ১৫ নভেম্বর দুপুর ২টায় এবং মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষার সময় ছিল ২২ নভেম্বর সকাল ১০টায়।

এআইজি কামরুজ্জামান আরও জানান, এই জেলাগুলো ছাড়া দেশের অন্যান্য জেলায় পূর্বঘোষিত সময়সূচি অনুযায়ী ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল (টিআরসি) পদে নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।


আরও খবর



সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটন হাসপাতালে

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৫ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৬ অক্টোবর ২০২১ | ৮০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটন রক্তের সংক্রমণ নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। তবে তার এই সংক্রমণ করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নয়। স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) সন্ধ্যায় সাবেক এই মার্কিন প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র এ তথ্য জানান।খবর এএফপির।

অ্যাঞ্জেল উরেনা নামের ওই মুখপাত্র টুইটারে দেওয়া বার্তায় জানান, গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় দক্ষিণ ক্যালিফোর্নিয়ার ইরভিন শহরের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বিল ক্লিনটনকে।

এএফপি জানিয়েছে, হাসপাতালে ভর্তি হলেও ক্লিনটনের সংক্রমণটি করোনা সংক্রান্ত নয় বলেও জানিয়েছেন অ্যাঞ্জেল উরেনা।

এদিকে চিকিৎসকদের বরাত দিয়ে বার্তাসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, হাসপাতালে দুই দিন চিকিৎসা নেওয়ার পর তার শারীরিক অবস্থা এখন অনেকটাই ভালো।

এছাড়া চিকিৎসকদের বরাত দিয়ে মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএন জানিয়েছে, শারীরিক ভাবে অসুস্থ বোধ করার হাসপাতালে যান বিল ক্লিনটন। পরে পরীক্ষা-নিরীক্ষায় তার রক্তপ্রবাহে সংক্রমণ ধরা পড়ে। মূত্রনালীর সংক্রমণ থেকে এই সংক্রমণ ছড়িয়েছে বলে মনে করছেন চিকিৎসকরা। তবে ক্লিনটনের হৃদরোগজনিত সমস্যা রয়েছে বলে জানা গেছে।

যুক্তরাষ্ট্রের ৪২তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে ১৯৯৩ সালে দায়িত্ব নেন বিল ক্লিনটন। এরপর দুই মেয়াদে ২০০১ সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় ছিলেন তিনি। তিনি মার্কিন অঙ্গরাজ্য আরকানসাসের বাসিন্দা।


আরও খবর



ইসরাইলের উপস্থিতি নিয়ে ইরানের সতর্কতা

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৮ অক্টোবর ২০২১ | ৭২জন দেখেছেন

Image

ইরান সীমান্তের কাছে ইসরাইলের কোনো ধরণের উপস্থিতি সহ্য করা হবে না বলে সতর্ক করেছেন দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাঈদ খাতিবজাদে।

সোমবার তেহরানে এক সংবাদ সম্মেলনে ইহুদিবাদী দেশটির প্রতি এ হুশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি। খাতিবজাদে বলেন, ইসরাইলের উপস্থিতি মানেই অনিরাপত্তা, অস্থিতিশীলতা ও সন্ত্রাসবাদ।

সৌদি আরবের সঙ্গে ইরানের আলোচনা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আলোচনায় দ্বিপক্ষীয় ও আঞ্চলিক বিষয় গুরুত্ব পাচ্ছে। আলোচনার বিষয়বস্তু আপাতত সবার কাছে প্রকাশ করা হবে না।

কাস্পিয়ান সাগরে আজারবাইজানের মহড়া প্রসঙ্গেও কথা বলেন ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এ মুখপাত্র।  

তিনি বলেন, কিছু ঘটনা আঞ্চলিক পরিস্থিতিকে সংবেদনশীল করে তুলেছে। আঞ্চলিক পরিস্থিতিকে অনুধাবন এবং কাস্পিয়ান সাগর সংক্রান্ত নীতিমালা মেনে চলাটা এ ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ।

এদিকে বিশ্বের শক্তিধর দেশগুলোর সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী তাদের বেধে দেওয়া মাত্রার চেয়ে বেশি মাত্রায় ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করেছে ইরান। দেশটি ২০ শতাংশ সমৃদ্ধ ১২০ কিলোগ্রামের বেশি ইউরেনিয়াম তৈরি করেছে। ইরানের পরমাণু শক্তি সংস্থার প্রধান মোহাম্মদ ইসলামি রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে এ কথা জানান।

তিনি বলেন, আমরা ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ ১২০ কিলোগ্রাম ছাড়িয়েছি। এটি আমাদের  হিসাবের চেয়েও বেশি আছে।

সেপ্টেম্বরে আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি সংস্থা রিপোর্ট করেছিল যে ২০১৫ বিশ্বের শক্তিধর দেশগুলোর সঙ্গে সম্পাদিত চুক্তিতে অনুমোদিত মাত্রার চেয়ে বেশি সমৃদ্ধ ইউরেনিয়াম মজুদ করছে ইরান।

এতে বলা হয়, ইরানের ২০ শতাংশ সমৃদ্ধ ইউরেনিয়ামের পরিমাণ ৮৪.৩ কিলোগ্রাম, এর আগে মে মাসের রিপোর্টে এই পরিমাণ ছিল ৬২.৮ কিলোগ্রাম।

নিউজ ট্যাগ: ইসরাইল ইরান

আরও খবর



নোয়াখালীতে যাত্রীবাহী বাস খালে পড়ে আহত ৩০

প্রকাশিত:রবিবার ২৪ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৮ অক্টোবর ২০২১ | ৫৮জন দেখেছেন

Image

নোয়াখালী প্রতিনিধি:

নোয়াখালীর সেনবাগে বাঁধন পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খালে পড়ে গেছে। এ দুর্ঘটনায় ৩০জন যাত্রী গুরুত্বর আহত হয়েছে। এদের মধ্যে কয়েজনের অবস্থা সংকটাপন্ন বলে জানিয়েছে স্থানীয় এলাকাবাসী।

রোববার (২৪ অক্টোবর) বিকাল ৫টারদিকে ফেনী-নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কের ভূঁইয়ার দিঘী রাস্তার মাথা সংলগ্ন সিএনজি ষ্টেশনের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, বাঁধন পরিবহনের একটি বাস চট্টগ্রাম থেকে নোয়াখালী আসার পথে ফেনী-নোয়াখালী আঞ্চলিক মহাসড়কের ভূঁইয়ার দিঘী রাস্তার মাথা সংলগ্ন সিএনজি ষ্টেশনের সামনে পৌঁছলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার উত্তর পার্শ্বের খালে পড়ে যায়। এসময় স্থানীয়রা এগিয়ে এসে খালের পানিতে নিমজ্জিত বাসের যাত্রীদের উদ্ধার করে সেবারহাট সহ সেনবাগের কয়েকটি হাসপাতালে প্রেরণ করে।

চন্দ্রগঞ্জ হাইয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)মৃধুল কান্তি মজুমদার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি আরো জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে দুর্ঘটনার শিকার বাসটি উদ্ধারে চেষ্টা চালায়। এ ঘটনায় পরবর্তীতে আগইনগত প্রদক্ষেপ নেওয়া হবে।


আরও খবর



হাইকোর্টে জামিন আবেদন হেলেনা জাহাঙ্গীরের

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৭ অক্টোবর ২০২১ | ৮২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় জামিন চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেছেন আওয়ামী লীগ থেকে অব্যাহতি পাওয়া হেলেনা জাহাঙ্গীর। সোমবার তার আইনজীবী সৈয়দ ফজলে ইলাহী জামিন আবেদন করার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, হেলেনা জাহাঙ্গীর অন্য সব মামলায় নিম্ন আদালত থেকে জামিন পেয়েছেন। এখন ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় জামিন পেলে তিনি মুক্তি পাবেন। এ কারণে এ মামলায় জামিন চেয়ে গত সপ্তাহে হাইকোর্টে আবেদন করেছি। মঙ্গলবার আবেদনটি বিচারপতি মো. রেজাউল হক ও বিচারপতি মো. বদরুজ্জামানের হাইকোর্ট বেঞ্চে শুনানি হতে পারে।

গত ৩০ জুলাই গুলশান থানায় হেলেনা জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়। এছাড়া গুলশান থানায় মাদক, বিশেষ ক্ষমতা, মিরপুর থানায় প্রতারণা মামলা এবং পল্লবী থানার টেলিযোগাযোগ আইনে মামলাও হয় তার বিরুদ্ধে।

২৯ জুলাই রাত ৮টার দিকে গুলশান-২ এ হেলেনা জাহাঙ্গীরের বাসায় অভিযান চালায় র‌্যাব। দীর্ঘ চার ঘণ্টা অভিযান শেষে রাত ১২টার দিকে তাকে আটক করা হয়। পরে র‌্যাব সদরদফতরে নিয়ে যাওয়া হয়। হেলেনা জাহাঙ্গীরকে আটকের পর তার প্রতিষ্ঠান জয়যাত্রা টেলিভিশন কার্যালয়েও অভিযান চালায় র‌্যাব। ওই অভিযানের পর র‌্যাব জানায় জয়যাত্রা টেলিভিশন কোনো ধরনের বৈধ কাগজপত্র ছাড়া চলত। হেলেনা জাহাঙ্গীর তার জয়যাত্রা টেলিভিশনের জন্য সারাদেশে প্রতিনিধি নিয়োগ করেছিলেন। প্রবাসী প্রতিনিধি নিয়োগের নামে তিনি অর্থ হাতিয়ে নিয়েছেন।

ডিজিটাল প্লাটফর্ম ব্যবহার করে মিথ্যাচার, অপপ্রচার ও বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়িয়ে রাষ্ট্রীয় গুরুত্বপূর্ণ সংস্থা ও ব্যক্তিদের সম্মানহানি করার অপচেষ্টার অভিযোগে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতার দেখানো হয় ৩০ জুলাই।


আরও খবর