Logo
শিরোনাম

৯৫ বারের মতো পেছাল সাগর-রুনি হত্যা মামলার তদন্ত প্রতিবেদন

প্রকাশিত:বুধবার ০৪ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ২১৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনি হত্যা মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আজ বুধবার দিন ধার্য ছিল। কিন্তু র‍্যাবের পক্ষ থেকে আজও আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়া হয়নি। আদালত আগামী ৫ মার্চ এই মামলার তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার জন্য নতুন তারিখ ধার্য করেছেন।

ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) আদালতের ম্যাজিস্ট্রেট রাশেদুল আলম বুধবার (৪ জানুয়ারি) এই তারিখ ঠিক করেন।

আদালতের নথিপত্রের তথ্য বলছে, এ নিয়ে এই মামলার তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার জন্য আদালত ৯৫ বার সময় দিলেন।

উল্লেখ্য, ২০১২ সালের ১১ ফেব্রুয়ারি মাছরাঙা টেলিভিশনের বার্তা সম্পাদক সাগর সারোয়ার ও এটিএন বাংলার জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক মেহেরুন রুনিকে নিজ ঘরে হত্যা করা হয়। এরপর নিহত রুনির ভাই নওশের আলম রোমান শেরেবাংলা নগর থানায় একটি হত্যা মামলা করেন।

প্রথমে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ছিলেন ওই থানার এক উপ-পরিদর্শক (এসআই)। চারদিন পর চাঞ্চল্যকর এই হত্যা মামলার তদন্তভার ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) কাছে হস্তান্তর করা হয়।

দুই মাসেরও বেশি সময় তদন্ত করে রহস্য উদঘাটনে ব্যর্থ হয় ডিবি। পরে হাইকোর্টের নির্দেশে একই বছরের ১৮ এপ্রিল হত্যা মামলাটির তদন্তভার র‌্যাবের কাছে হস্তান্তর করা হয়।


আরও খবর



উন্নয়নশীল দেশগুলোর সংকট কাটাতে বৈশ্বিক সহায়তায় গুরুত্বারোপ প্রধানমন্ত্রীর

প্রকাশিত:সোমবার ২৩ জানুয়ারী 20২৩ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩ | ২৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

কোভিড-১৯ মহামারি এবং রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে উদ্ভূত সংকট কাটিয়ে উঠতে বাংলাদেশের দেশের মতো উন্নয়নশীল দেশগুলোকে সহায়তা করার জন্য বিশ্বব্যাংক এবং অন্যান্য আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বিশ্বব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক অ্যাক্সেল ভ্যান ট্রটসেনবাগ আজ সোমবার (২৩ জানুয়ারি) সকালে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তাঁর কার্যালয়ে (পিএমও) সৌজন্য সাক্ষাৎ করতে এলে শেখ হাসিনা এ আহ্বান জানান।

শেখ হাসিনা বলেন, কোভিড-১৯ মহামারি এবং রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের ফলে বিদ্যমান সংকট মোকাবিলায় বাংলাদেশের মতো উন্নয়নশীল দেশগুলোকে সহায়তা করুন।

বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য লেখক মো. নজরুল ইসলাম সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন।

বিশ্বব্যাংকের এমডি বাংলাদেশের উন্নয়নকে অবিশ্বাস্য হিসেবে বর্ণনা করেন এবং উন্নয়নের ধারায় ঢাকার পাশে থাকার আশ্বাস দিয়ে বলেন, আমরা ১৯৭২ সাল থেকে বাংলাদেশের পাশে আছি এবং দেশের উন্নয়ন প্রচেষ্টায় আমাদের সমর্থন অব্যাহত রাখব।

বিশ্ব ব্যাংকের এমডি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বে বাংলাদেশের ব্যাপক উন্নয়নের ভূয়সী প্রশংসা করেন।

শেখ হাসিনা বলেন, বাংলাদেশের জনগণের মাথাপিছু আয় ছিল মাত্র ৫০ মার্কিন ডলার, কিন্তু তা এখন বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৮২৪ মার্কিন ডলারে।


আরও খবর



দিনাজপুরে দম্পতির মরদেহ উদ্ধার

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৬ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ৫৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

দিনাজপুর শহরের একটি ভাড়া বাসা থেকে এক দম্পতির মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার ৬ জানুয়ারি সকালে শহরের লিলি মোড়ের লুৎফুন্নেছা টাওয়ার অ্যান্ড শপিং কমপ্লেক্সের পাশের ফাতেমা বীথি নামে একটি ভাড়া বাসায় তাদের মরদেহ দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেয়।

কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তানভীরুল ইসলাম ঘটনা নিশ্চিত করে জানান, ফরেনসিক বিভাগের লোকজন সহায়তায় পুলিশ মরদেহ দুটি উদ্ধার করেছে। নিহতরা হলেন মজিবর রহমান (৬৫) এবং তার স্ত্রী সুরাইয়া বেগম (৪৫)।

ওসি তানভীরুল জানান, নিহত দুজন সম্পর্কে স্বামী-স্ত্রী। এর মধ্যে মজিবর রহমানকে ঘরের আড়ায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় পাওয়া যায়। তার স্ত্রীর মাথায় আঘাতের চিহ্ন লক্ষ্য করা গেছে। ঘটনা তদন্ত করে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ সংবাদ ছড়িয়ে পড়লে নিহতদের আত্মীয়-স্বজন ও উৎসুক জনতার ঢল নামে ওই বাসায়। পুলিশ উপস্থিতি সামাল দিতে বাড়ির প্রধান ফটকে তালা দেয়।


আরও খবর

৯ ডিগ্রিতে কাঁপছে দিনাজপুর

রবিবার ২৫ ডিসেম্বর ২০২২




রাষ্ট্রপতি পদের যোগ্যতা আমার নেই : ওবায়দুল কাদের

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১২ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩ | ২৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি পদের জন্য নিজের যোগ্যতা নেই বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারি) সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে রাষ্ট্রপতি নির্বাচন সংক্রান্ত সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ওই পদে (রাষ্ট্রপতি) যাওয়ার যোগ্যতা আমার নেই। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আলাপ-আলোচনা করছেন এবং খোঁজখবর নিচ্ছেন। সময় হলে জানতে পারবেন।

বিএনপির ঐক্যকে অর্থহীন ও জগাখিচুড়ি আখ্যা দিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, আমরা কিছু করছি না। জামায়াত ছাড়া বিএনপির টিকে থাকা দুষ্কর। তারা একই মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, তাদের (বিএনপি) কর্মসূচিতে জনগণের সম্পৃক্ততা নেই। ফরিদপুরে তাদের মিটিং থেকে পুলিশকে ইট-পাটকেল ছোড়া হয়েছে।

সহিংসতা হলে আওয়ামী লীগ মানুষের পাশে থাকবে জানিয়ে তিনি বলেন, বিএনপির আন্দোলনের সময় জানমাল রক্ষায় আগের মতোই সতর্ক থাকবে আওয়ামী লীগ। আমরা রাজপথে আছি, রাজপথ ছাড়ব না।


আরও খবর



হাসপাতালের লিফট ছিঁড়ে আহত ৭

প্রকাশিত:শনিবার ০৭ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:সোমবার ২৩ জানুয়ারী 20২৩ | ৫৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মানিকগঞ্জ সেন্ট্রাল স্পেশালাইজড হাসপাতালের লিফট ছিঁড়ে নারীসহ আহত হয়েছেন সাতজন। এদের মধ্যে গুরুতর আহত হয়ে তিনজন ওই হাসপাতালে ভর্তি থাকলেও বাকিরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি চলে গেছেন।

শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মানিকগঞ্জ বাসস্ট্যান্ড এলাকার পৌর সুপার মার্কেটে এ দুর্ঘটনাটি ঘটেছে।

গুরুতর আহতরা হলেন- মানিকগঞ্জ সদর উপজেলার পালরা গ্রামের মনোরা বেগম (৬৫), বেতিলা গ্রামের জহিরুল ইসলাম (২৫) ও সাটুরিয়া উপজেলার দিঘুলিয়া গ্রামের আয়েশা (২১)।

আহত জহিরুল ইসলাম ইসলাম বলেন, ডাক্তার দেখানোর জন্য আমি একজন রোগী নিয়ে আজ দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে পৌর মার্কেটে মানিকগঞ্জ সেন্ট্রাল স্পেশালাইজড হাসপাতালে আসি। নিচ তালা থেকে আমরা ৭-৮ জন লোক ৩য় তলায় যাওয়ার জন্য লিফটে উঠি। ৩য় তলায় যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে লিফট ছিঁড়ে নিচে পড়ে যাই। আমরা নিচ তালায় পড়ে যাই। এতে করে কমবেশি সবাই আহত হই।

মানিকগঞ্জ সেন্ট্রাল স্পেশালাইজড হাসপাতালের ম্যানেজার মো. বাবুল আক্তার খান জানান, এই লিফট আমরা সময় মতোই সার্ভিসিং করি। কিন্তু কেন এমন হলো তা টেকনিশিয়ান না আসলে বোঝা যাবে না। এই দুর্ঘটনায় যারা আহত হয়েছেন সবাইকে আমরা চিকিৎসা দিয়েছি।

মানিকগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রউফ সরকার জানান, খবর পেয়ে পুলিশ পাঠানো হয় এবং খোঁজখবর নেওয়া হয়। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


আরও খবর

দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ

বৃহস্পতিবার ২৯ ডিসেম্বর ২০২২




পাল্লা দিয়ে বেড়েছে শীতের পোশাকের দাম

প্রকাশিত:শনিবার ১৪ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:সোমবার ২৩ জানুয়ারী 20২৩ | ৩৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

এক সপ্তাহ ধরে রাজধানীতে শীতের তীব্রতা ব্যাপক বেড়েছে। ফলে শীতের প্রাদুর্ভাব থেকে রক্ষায় প্রয়োজন পোশাকের। এ জন্য চাহিদাও বেড়েছে এই পোশাকের। কিন্তু চাহিদা যতই বাড়ছে, পাল্লা দিয়ে বেড়েছে শীতের পোশাকের দামও। শপিংমল থেকে শুরু করে ফুটপাত সবখানে বেড়েছে প্রয়োজনীয় পোশাকটির।

সরেজমিনে দেখা যায়, পুরান ঢাকার লক্ষ্মীবাজার, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ও কবি নজরুল সরকারি কলেজ-সংলগ্ন ফুটপাতের শীতবস্ত্রের দোকানগুলোয় শীতের পোশাক কেনার জন্য ভিড় জমেছে। কাছে যেতেই দেখা যায়, দর-কষাকষি করছেন ক্রেতা-বিক্রেতারা। কেউ নিচ্ছেন, কেউ ফিরে যাচ্ছেন।

লক্ষ্মীবাজারে ফুটপাত থেকে ছেলেমেয়ের জন্য শীতের পোশাক কিনতে আসেন রাবেয়া বেগম। জানতে চাইলে বলেন, ‌‌‌শীতের শুরুতে একবার শীতের পোশাক দেখে এসেছিলাম। তখন বাচ্চাদের একটা সোয়েটারের দাম ছিল ৩০০ টাকা। ভেবেছিলাম কদিন গেলে দাম আরও কমবে। কিন্তু আজ এসে দেখি সেই সোয়েটারের দাম আরও ১০০ টাকা বাড়িয়েছে। শীত বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে দোকানদাররা পাল্লা দিয়ে শীতের পোশাকের দামও বাড়িয়েছে। আমাদের মতো মানুষের একটা নতুন জিনিস কিনতে তিনবার ভাবতে হয়। উপায় না দেখে অন্য একটা দোকান থেকে কম দামি একটা সোয়েটার কিনে দিয়েছি ছেলেকে। দাম কমলে অন্য আরেক দিন এসে মেয়েটার জন্য নেবো।

গ্রেট ওয়াল শপিংমলে ছেলেমেয়ের জন্য শীতের পোশাক কিনতে আসা শরিফা নামের এক ক্রেতা বলেন, শপিংমলের লোকাল ব্র্যান্ডের পণ্যগুলোয় এক সপ্তাহের ব্যবধানে দাম দ্বিগুণ হয়েছে। তার চেয়ে ব্র্যান্ডের পণ্য ভালো। শুরুতে যেই দাম, এখনও একই দাম। কিন্তু তা-ও আমাদের সাধ্যের বাইরে। দোকানদাররা কিছু পণ্যে মূল্য লাগিয়ে রেখেছে। শীত বেশি পড়ার কারণে এখন দামও বেড়ে গেছে। নাগালের বাইরে দাম চলে যাওয়া সত্ত্বেও বাচ্চাদের আবদার পূরণ করতে একটু দামি পোশাক কিনতে হচ্ছে। বছরে একবারই তো শীতের পোশাক কেনা হয়, এ জন্য সবাই ওত দামের কথা চিন্তা না করে সন্তানের খুশির জন্য কেনাকাটা করছে।

দাম বাড়ানোর বিষয়টি স্বীকার করে ফুটপাতে শীতের পোশাক বিক্রেতা মো. শাকিল বলেন, চাহিদা বাড়ায় পাইকারি বাজারে দাম বেড়েছে। আমরা তো খুচরা বিক্রেতা। কেনার ওপর বিক্রি নির্ভর করে। কম দামে কিনতে পারলে আমরা কম দামে বিক্রি করতে পারি। বেশি দামে কিনে তো আমরা লস দিয়ে বিক্রি করতে পারি না। তাই দাম না বাড়িয়ে আমাদের উপায় নেই। প্রতি লটে আগের চেয়ে ৩ থেকে ৪ হাজার টাকা বেশি খরচ হচ্ছে। আগে যে কাপড় গড়ে ১০০ টাকা করে কেনা পড়তো, সেটা এখন ১৩০ টাকা করে কিনতে হচ্ছে। আমাদের দোষ দিয়ে লাভ নাই। আমরা নিরুপায়।

মনোয়ার নামের আরেক বিক্রেতা বলেন, আমাদের তো আর দোকান ভাড়া দেওয়া লাগে না। লাইনম্যান আর পুলিশরে এদিক-সেদিক যা দিয়ে সারা যায়, সবকিছু মিলিয়ে আমরা পোশাক বিক্রি করি। আমাদের এখানকার একই পোশাক দোকানে গেলে আপনি আরও বেশি দামে কিনতে হবে। আমরা সব সময় সীমিত লাভে বিক্রি করি। কারণ, এখানে যারা আসে তারা অনেকেই রেগুলার কাস্টমার। একটা প্রোডাক্টে ২০ থেকে ৩০ টাকার বেশি লাভ করি না। আমরা যেই সোয়েটার ২০০ টাকা বিক্রি করি, সেটা দোকানে গেলে ৩০০ টাকার কমে কিনতে পারবেন না। সে হিসাবে আমরা বেশি বিক্রি করি না।

নিউজ ট্যাগ: শীতের পোশাক

আরও খবর

শুক্রবার রাজধানীর যেসব মার্কেট বন্ধ

শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩

রাজধানীতে ছাদ থেকে পড়ে শিশুর মৃত্যু

বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩