Logo
শিরোনাম

আগুনে পুড়ে বসত ঘর হারানো পরিবারের পাশে ইঞ্জিনিয়ার নোমান

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৪ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ২৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ভোলা জেলার লালমোহন থানাধীন ধলীগৌরন নগর ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের মৃত খোরশেদ আলমের পুত্র মোহাম্মদ নূরনবীর বসত ঘড়টি আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে যায়। সেই সাথে পুড়ে যায় তার কষ্টার্জিত নগদ অর্থ ও ঘরের সকল আসবাবপত্র। সকল স্বয় সম্বল হারিয়ে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারটি দিশেহারা হয়ে পড়ে। খবর পেয়ে বিবিএস গ্রুপের চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার আবু নোমান হাওলাদার (সিআইপি) ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারটির খোঁজখবর নেন এবং তাদেরকে নতুন একটি গৃহ নির্মাণের জন্য নগদ অর্থ প্রদান করেন।

উক্ত প্রদান কৃত অর্থ তার পক্ষ থেকে পরিবারটির হাতে তুলে দেন স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা কামাল মাস্টার, ফজলুর রহমান ও সাদেক মিস্ত্রি। গৃহ নির্মাণের জন্য আর্থিক সহায়তা পেয়ে নূরনবী ও তার পরিবারের সদস্যরা আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়ে এবং ইঞ্জিনিয়ার আবু নোমান হাওলাদার এর জন্য দোয়া করেন।

উল্লেখ্য, ইঞ্জিনিয়ার আবু নোমান হাওলাদার (সিআইপি) ভোলা ৩ লালমোহন তজুমদ্দিন এর সর্বস্তরের মানুষের কাছে অত্যন্ত জনপ্রিয় একজন ব্যক্তি, তিনি লালমোহন তজুমদ্দিনের মানুষের শিক্ষা স্বাস্থ্য ও আর্থসামাজিক উন্নয়নে ব্যাপক ভূমিকা রেখে চলেছেন, তিনি সংসদীয় আসন ১১৭ ভোলা ৩ এ জননেত্রী শেখ হাসিনা তথা বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী।


আরও খবর

কড়াইয়ের গরম তেলে পড়ে শিশুর মৃত্যু

শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩




বালিশ-কুশনের যত্নে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৭ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ২৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

শুধু বালিশের কভার পরিষ্কার করেই আমরা নিশ্চিন্ত থাকি। আর বছর বছর নতুন চাদর আর বালিশের কভার কিনলেও বালিশ বদলে ফেলার কথা একবারও ভাবি না। অথচ জানেন কি, অপরিষ্কার বালিশ রোগজীবাণুর বাসা। ভেবে দেখুন, গড়ে প্রায় প্রতিদিন আট ঘণ্টা আপনি বালিশে শুয়ে কাটাচ্ছেন। প্রতিদিন ঘাম, মৃতকোষ, হাঁচি বা কাশি থেকে আসা ব্যাকটেরিয়া সবই জমা হচ্ছে বালিশে। তাই বালিশের যত্ন নেওয়া এবং বালিশ পরিচ্ছন্ন রাখা প্রয়োজন।

যা করবেন: ধুলোময়লা, ঘামের হাত থেকে বালিশ পরিষ্কার রাখতে চেন দেওয়া বালিশের কভার ব্যবহার করুন। এতে ময়লা কম হবে। চেন দেওয়া কভার না থাকলে বালিশে দুটো কভার ব্যবহার করুন। এতে বালিশের ফেব্রিক পরিষ্কার থাকবে। বালিশের কভার এক সপ্তাহ অন্তর বদলে ব্যবহার করুন। নিয়মিত ব্যবহারের জন্য সুতির মোটা কভার বেছে নিন। 

সপ্তাহে একবার বালিশগুলো ভ্যাকুয়াম করুন। সহজে ধুলোময়লা পরিষ্কার হবে। সারা রাত শোওয়ার পর অনেক সময় ঘামে বালিশ ভিজে যায়। সে ক্ষেত্রে ড্রয়ারে ৫-১০ মিনিট লো-হিট তাপমাত্রায় রেখে বালিশ শুকনো করে নিন। তুলার তৈরি বালিশ সপ্তাহে এক দিন রোদে দিন। বালিশ নরম থাকবে।

বালিশের রোঁয়া থেকে অ্যালার্জির সমস্যা মিটবে। তিন-চার বছর অন্তর তুলা বদলে ফেলুন। বালিশ ভালো থাকবে। সিনথেটিক ফাইবারে তৈরি বালিশ ঘরেই পরিষ্কার করতে পারেন। এ ক্ষেত্রে ঈষদুষ্ণ পানিতে মাইল্ড ডিটারজেন্ট দিয়ে বালিশ পরিষ্কার করে ঠান্ডা পানিতে ভালো করে বালিশ ধুয়ে নিন। ওয়াশিং মেশিনেও এ ধরনের বালিশ পরিষ্কার করা যায়।

প্রথমে বালিশ চেপে ভেতরের হাওয়া বের করে দিন। এবার ওয়াশিং মেশিনে বালিশ দিয়ে জেন্টল ওয়াশ সাইকেল বাটন প্রেস করুন। পরিষ্কার হওয়ার পর শুধু পানিতে বালিশগুলো ভালো করে ধুয়ে নিন। শেষে পানিতে ২-৩ ফোঁটা ভিনিগার মিশিয়ে তাতে বালিশগুলো একবার ডুবিয়ে তুলে নিন। বালিশের গায়ে জমে থাকা ময়লা পরিষ্কার হয়ে যাবে। ওয়াশিং মেশিনের স্পিনড্রাই করে রোদে শুকনো করে নিন।

বালিশের কভার ধোওয়ার পর কাপড় মেলার তারে এমনভাবে ক্লিপ আটকে দিন যাতে ভালো করে আলো-বাতাস চলাচল করতে পারে। এতে তাড়াতাড়ি শুকিয়ে যাবে। শিশুদের বালিশের কভার ধোওয়ার পর পানির মধ্যে কয়েক ফোঁটা অ্যান্টিসেপটিক লিকুইড দিয়ে কভার ডুবিয়ে নিংড়ে মেলে দিন। একই বালিশ বছরের পর বছর ব্যবহার করবেন না। বালিশ বেশি পুরনো হয়ে গেলে ভেতরের তুলা শক্ত হয়ে যায়। এ ছাড়া বালিশের শেপও খারাপ হয়ে যায়। এ রকম বালিশে শুলে কিন্তু ঘাড় ব্যথা অবধারিত। বালিশ ব্যবহারের উপযুক্ত আছে কি না তা বোঝার একটা সহজ উপায় আছে। বালিশ দুই পাশ থেকে ধরে ভাঁজ করে ছেড়ে দিন। যদি বালিশ আবার আগের শেপে ফিরে যায় তাহলে বুঝবেন বালিশ ঠিক আছে। না হলে বুঝবেন নতুন বালিশ কেনার সময় হয়েছে। বালিশ স্টোর করতে হলে প্লাস্টিকের ব্যাগে বালিশ ঢুকিয়ে আলমারিতে রাখবেন না। তার বদলে নরম সুতির চাদরে বালিশ মুড়ে আলমারিতে বা বক্স খাটে রাখতে পারেন।

কুশন কেয়ার: বিছানা বা সোফায় রঙিন কুশন সাজিয়ে রাখলে দেখতে বেশ ভালো লাগে। কিন্তু যেমন তেমন ভাবে কুশন ফেলে রাখলে অচিরেই ময়লা হয়ে যাবে। জেনে নিন কুশন কীভাবে ভালো রাখবেন। একসঙ্গে অনেক কুশন চেপে রাখবেন না। কুশনের ফোলাভাব কমে যাবে। কুশন দু-তিন সেট কিনে রাখুন। মাঝেমধ্যে বদলে দিন। দেখবেন ঘরের সাজই বদলে যাবে। সাজানোর জন্য ফোমের কুশন ব্যবহার করুন। সহজে নেতিয়ে পড়বে না। বালিশের মতো কুশনের তুলাও মাঝে মাঝে বদলে ফেলুন।

কুশনের ফোলাভাব কমে গেলে বাড়তি তুলা ভরে নিন। কুশন কভারে বিডস, কাচ বা অ্যাপ্লেকের কাজ থাকলে ড্রাই ওয়াশ করুন। কুশন ফেদারের হলে ড্রাই ক্লিন করতে হবে। ফেদারের কুশন ভ্যাকুয়াম ক্লিন করবেন না। এতে ফেদার নষ্ট হয়ে যাবে। পলিয়েস্টার প্যাডের তৈরি কুশন বাড়িতেই পরিষ্কার করে নিতে পারেন। তাই কেনার সময় কুশনের ফিলিং কী তা ভালো করে জেনে নিন।


আরও খবর

আজকের রাশিফল: জেনে নিন কেমন কাটবে দিন ?

শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩

অ্যাকনে যখন মাথার ত্বকে

বুধবার ২৫ জানুয়ারী ২০২৩




রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের ব্যাপারে যা জানালেন ইসি আলমগীর

প্রকাশিত:রবিবার ১৫ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৪ জানুয়ারী ২০২৩ | ৩২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

যথাসময়ে রাষ্ট্রপতি নির্বাচন অনুষ্ঠান সম্পন্ন করতে প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার (ইসি) মো. আলমগীর। সেক্ষেত্রে ২৪ জানুয়ারি থেকে ২৩ এপ্রিলের মধ্যে রাষ্ট্রপতি ভোট করতে হবে।

রোববার (১৫ জানুয়ারি) আগারগাঁওয়ের নির্বাচন ভবনে নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

আগামী ২৪ এপ্রিলের মধ্যে শেষ হচ্ছে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের মেয়াদ। সেক্ষেত্রে ২৪ জানুয়ারি থেকে ২৩ এপ্রিলের মধ্যে করতে হবে এ নির্বাচন।

সংসদের চলতি অধিবেশন ৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত চলবে বলে সংসদের কার্য উপদেষ্টা কমিটিতে সিদ্ধান্ত হয়েছে। বর্তমান সংসদে ৩৫০ আসনের মধ্যে বিএনপির সংসদ সদস্যরা পদত্যাগ করার পর সাতটি আসন শূন্য রয়েছে। এর মধ্যে ১ ফেব্রুয়ারি ছয় আসনের উপ-নির্বাচন রয়েছে।

সবশেষ রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের তফসিল হয়েছে ২০১৮ সালের ২৫ জানুয়ারি। সেবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ভোটের তারিখ থাকলেও একক প্রার্থী হওয়ায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ৬ ফেব্রুয়ারি নির্বাচিত হন তিনি।

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক ইতোমধ্যে বলেছেন, যেহেতু তিনি (আবদুল হামিদ) দুই টার্ম থেকেছেন, সংবিধান অনুযায়ী তিনি আর থাকতে পারেন না। সেহেতু আমরা নতুন রাষ্ট্রপতি দেখব।

রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হন সংসদ সদস্যদের ভোটে। সংসদে আওয়ামী লীগের নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা থাকায় তাদের প্রার্থীর রাষ্ট্রপতি হওয়াটা প্রায় নিশ্চিত।

রোববার নির্বাচন কমিশনার আলমগীর বলেন, মহামান্য রাষ্ট্রপতির নির্বাচনের প্রক্রিয়া আমরা ইতোমধ্যে শুরু করে দিয়েছি। যথাসময়ে নির্বাচন হবে।

তবে কবে নাগাদ তফসিল ঘোষণা করা হতে পারে সে বিষয়ে মন্তব্য করেননি এ নির্বাচন কমিশনার। তিনি বলেন, এভাবে তো বলতে পারবো না, যথাসময়ে হবে। প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। আইন অনুযায়ী স্পিকারের সঙ্গে প্রধান নির্বাচন কমিশনারের এ প্রসঙ্গে আলাপ হবে।

সংবিধানের ১২৩ অনুচ্ছেদে বলা হয়েছে, (১) রাষ্ট্রপতি পদের মেয়াদ অবসানের কারণে এ পদ শূন্য হইলে মেয়াদ সমাপ্তির তারিখের আগের ৯০ থেকে ৬০ দিনের মধ্যে শূন্য পদ পূরণের জন্য নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।


আরও খবর



স্থপতি মোবাশ্বের হোসেন আর নেই

প্রকাশিত:সোমবার ০২ জানুয়ারী 2০২3 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৪ জানুয়ারী ২০২৩ | ৪১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বাংলাদেশ স্থপতি ইন্সটিটিউটের (আইএবি) সদ্য সাবেক সভাপতি, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও দেশ বরেণ্য স্থপতি মোবাশ্বের হোসেন মারা গেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

রবিবার (১ জানুয়ারি) দিবাগত রাত দেড়টার দিকে রাজধানীর শ্যামলীস্থ বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

এ তথ্য জানিয়ে আইএবি বলেছে, দীর্ঘদিন ধরে নানা শারীরিক জটিলতায় ভুগছিলেন এই বীর মুক্তিযোদ্ধা। পরিবারের সঙ্গে কথা বলে শিগগিরই তার জানাজা ও দাফনের বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে।

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) থেকে স্থাপত্যে স্নাতক সম্পন্ন করা এই বীর মুক্তিযোদ্ধা আজীবন নাগরিক অধিকার আদায় ও পরিবেশ আন্দোলনসহ বিভিন্ন বিষয়ে সোচ্চার ছিলেন। আইএবির শোক বার্তায় বলা হয়েছে, তার এই মৃত্যুতে দেশ একজন অসাধারণ দেশপ্রেমিক, সংগঠক এবং বলিষ্ঠ অভিভাবক হারালো।


আরও খবর



স্কুলছাত্রীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, গ্রেফতার ২

প্রকাশিত:সোমবার ০২ জানুয়ারী 2০২3 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৪ জানুয়ারী ২০২৩ | ২৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মাদারীপুরে ইজিবাইক গতিরোধ করে এক স্কুলছাত্রীকে তুলে নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় দুইজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তারা হলেন, প্রধান অভিযুক্ত শামীম ফকির (২৪) ও তার সহযোগী ইয়াছিন বেপারী (১৯)।

সোমবার (২ জানুয়ারি) সকালে তাদের দুইজনকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। এর আগে রোববার রাতে অভিযান চালিয়ে উপজেলার পশ্চিম রাজৈর এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতার শামীম ফকির (২৪) ওই এলাকার মৃত এসকেন ফকিরের ছেলে ও ইয়াছিন বেপারী (১৯) একই এলাকার পাট্রু বেপারীর ছেলে।

পুলিশ জানায়, মাদারীপুর সদর উপজেলার একটি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ৮ম শ্রেণির বার্ষিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলে গত শনিবার বিকেলে মিষ্টি নিয়ে ইজিবাইকে নিজ বাড়ি থেকে নানাবাড়িতে যাচ্ছিল ভুক্তভোগী। মাঝপথে কয়েকজন বখাটে ইজিবাইকের গতিরোধ করে। পরে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণের পর পালিয়ে যায়।

পরে অনেক খোঁজাখুঁজির পর স্বজনরা একজন ভ্যানচালকের সহযোগিতায় শনিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে মেয়েটিকে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার চেয়েছেন করেছেন স্বজন ও এলাকাবাসী।

ভুক্তভোগীর মা বলেন, আমার স্বামী ঘটনা শোনার পর হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। একসঙ্গে দুটি ঘটনা মেনে নিতে পারছি না। এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার চাই।

মাদারীপুর জেলা সদর হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা. শাওলীন আফরোজা জানান, প্রচুর রক্তপাত হওয়ায় মেয়েটির অবস্থা গুরুতর। এখনো চিকিৎসা চলছে।


আরও খবর

কড়াইয়ের গরম তেলে পড়ে শিশুর মৃত্যু

শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩




বিশ্ব ইজতেমায় শতাধিক গণবিয়ে

প্রকাশিত:শনিবার ১৪ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩ | ৩৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিশ্ব ইজতেমায় শতাধিক গণবিয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে। ইজতেমা আয়োজক কমিটি এ বছরের প্রথম দফা ইজতেমায় গণবিয়ের আয়োজন করা হয়েছে। আজ শনিবার (১৪ জানুয়ারি) বাদ আসর এ গণবিয়ে সম্পন্ন হয়। এবার ইজতেমা ময়দানে যৌতুকবিহীন বিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে হয়েছে বলে জানিয়েছেন জহির ইবনে মুসলিম। 

জহির ইবনে মুসলিম বলেন, শনিবার বাদ আসর বিশ্ব ইজতেমা ময়দানের মূলমঞ্চে ১০০ যৌতুকবিহীন বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে। বিয়ে পরিচালনা করেন মাওলানা জোহায়েরুল হাসান।

তাবলিগের রেওয়াজ অনুযায়ী ইজতেমার দ্বিতীয় দিন বাদ আসর বয়ান মঞ্চের পাশে বসে যৌতুকবিহীন বিয়ের আসর। কনের সম্মতিতে বর ও কনে পক্ষের লোকজনের উপস্থিতিতে ওই বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়।

বিয়েতে মোহরানা ধার্য করা হয় মোহর ফাতেমীর নিয়মানুযায়ী। এ নিয়ম অনুযায়ী মোহরানার পরিমাণ ধরা হয় দেড়শ তোলা রূপা বা এর সমমূল্য অর্থ। বিয়ের পর নব-দম্পতিদের সুখ-সমৃদ্ধিময় জীবন কামনা করে আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের দরবারে মোনাজাতের মাধ্যমে দোয়া করা হয়। এ সময় মঞ্চের আশপাশের মুসল্লিদের মাঝে খুরমা, খেজুর ও মিষ্টি বিতরণ করা হয়।

জহির ইবনে মুসলিম আরও বলেন, কয়েক বছর বন্ধ থাকার পর এবার মূল মঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে যৌতুকবিহীন গণবিয়ে। বর এবং কনে পক্ষের লোকজনের উপস্থিতিতে শতাধিক গণবিয়ে অনুষ্ঠিত হয়। বাদ আসর বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করে উপস্থিত মুসল্লিদের মধ্যে খেজুর বিতরণ করা হয়।

ইজতেমা আয়োজক কমিটির মুরুব্বি প্রকৌশলী মাহফুজ জানান, প্রথম পর্বের বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় দিনের শুরুতে বয়ান করেছেন পাকিস্তানের মাওলানা খোরশিদুল হক। সকালের বয়ানে বলা হয় পরকালের চিরস্থায়ী সুখ শান্তির জন্য আমাদের প্রত্যেককে দুনিয়াতে জীবিত থাকা অবস্থায় দ্বীনের দাওয়াতের কাজে জানমাল দিয়ে মেহনত করতে হবে। ইমান আমলের মেহনত ছাড়া কেউ হাশরের ময়দানে কামিয়াব হতে পারবে না। দাওয়াতের মেহনত হলো নবুওয়াতি মেহনত। খুলুসিয়াত ও আজমতের সঙ্গে যারা মেহনত করবে, তাদের যে কোনো আমলের ফজিলত বহুগুণ বেড়ে যায়।

নিউজ ট্যাগ: বিশ্ব ইজতেমা

আরও খবর

শুক্রবার রাজধানীর যেসব মার্কেট বন্ধ

শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩

রাজধানীতে ছাদ থেকে পড়ে শিশুর মৃত্যু

বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩