Logo
শিরোনাম

আমদানি বন্ধ থাকলেও বাড়েনি পেঁয়াজের দাম

প্রকাশিত:শনিবার ১৪ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ২১ মে ২০২২ | ৫৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

দেশীয় কৃষকের স্বার্থ বিবেচনা করে আমদানি বন্ধ রাখা হলেও খুচরা বাজারে এখনও দাম বাড়েনি পেঁয়াজের। তবে পেঁয়াজের দাম বাড়ার আশঙ্কা প্রকাশ করছেন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা। রাজধানীর মিরপুর ১১, ১২ নম্বর এলাকা ও কালশী বাজার ঘুরে এমন তথ্য জানা যায়।

কালশী বাজার এলাকার আল-মদিনা জেনারেল স্টোরের মালিক মো. রহিম বলেন, আমি ৩৫ টাকায় পেঁয়াজের কেজি বিক্রি করছি। তিনদিন আগে দোকানের জন্য ১৭ কেজি পেঁয়াজ কিনেছিলাম। আগে কিনেছি বলেই কম দামে বিক্রি করছি। বাজার থেকে নতুন করে পেঁয়াজ কিনলে বুঝতে পারবো দাম বাড়ছে কিনা।

মিরপুর ১১ নম্বর এলাকার পাটোয়ারী জেনারেল স্টোরের মালিক আবু বক্কর সিদ্দিক পিন্টু বলেন, আমি আগের দামে পেঁয়াজ বিক্রি করছি। পেঁয়াজের আমদানি বন্ধ থাকলেও এখনও বাজারে প্রভাব পড়েনি। আমার মনে হয় ৩-৪ দিনের মধ্যে এর প্রভাব পড়বে। পেঁয়াজের দাম আবার বাড়তে পারে।

মিরপুর ১২ নম্বর এলাকার ডেইলি মার্ট জেনারেল স্টোরের মালিক শাহাদাত হোসেন বলেন, পাইকারি বাজারে পেঁয়াজ কিনতে গিয়ে বাড়তি দামে কিনতে হচ্ছে। যে পেঁয়াজ কেজি ২৩ টাকা দিয়ে কিনেছি তা কিনতে হয়েছে ২৭ টাকায়। আর দোকানে বিক্রি করছি ৩৫ টাকায়। এছাড়াও উন্নতমানের পেঁয়াজ কিনছি ৩২ থেকে ৩৫ টাকায়, বিক্রি করছি ৪০ টাকায়। কিছু মানুষ অকারণে পাইকারি বাজারে গিয়ে বেশি বেশি পেঁয়াজ কিনছেন। এর ফলে বাজারে পেঁয়াজের সংকট সৃষ্টি হতে পারে। বাড়তে পারে দামও।

এর আগে দেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম ৪০ টাকার উপরে উঠলে আবারও ভারত থেকে ইমপোর্ট পারমিটের (আইপি) অনুমোদন দেওয়া হবে বলে জানান বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ও ডিজিটাল কমার্স সেলের প্রধান এএইচএম সফিকুজ্জামান। একইসঙ্গে আইপি বন্ধে পেঁয়াজের দামে কোনো প্রভাব পড়বে না বলে জানান তিনি।

নিউজ ট্যাগ: পেঁয়াজের দাম

আরও খবর



দোকানের সুরঙ্গে লুকানো ছিল ১০৫০ লিটার সয়াবিন তেল

প্রকাশিত:রবিবার ০৮ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | ৬৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চট্টগ্রাম নগরের কর্ণফুলী মার্কেটের খাজা স্টোরে বাড়তি লাভের আশায় দোকানের মধ্যেই সুড়ঙ্গ তৈরি করে লুকিয়ে রাখা হয়েছিল ১ হাজার ৫০ লিটার তেল।

রোববার বিকেলে প্রতিষ্ঠানটিতে গিয়ে অবৈধভাবে মজুত করে বাজারে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টির জন্য রাখা এসব তেল জব্দ করেছেন জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর চট্টগ্রাম বিভাগীয় কার্যালয়ের একটি টিম। এভাবে তেল মজুত করার দৃশ্য দেখতে পান কর্মকর্তারা।

এ অপরাধে প্রতিষ্ঠানটিকে ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। অভিযানে নেতৃত্ব দেন ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর চট্টগ্রাম বিভাগীয় কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মোহাম্মদ ফয়েজ উল্যাহ।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন অধিদপ্তরের চট্টগ্রাম বিভাগীয় কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মো. আনিছুর রহমান ও নাসরিন আক্তার।

ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিকার অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মোহাম্মদ ফয়েজ উল্যাহ বলেন, তেলগুলো দোকানের মেঝের নিচে বিশেষ কায়দায় করা একটি গুদামে লুকিয়ে রাখা হয়েছিল। অভিযানের সময় এগুলো বের করে আনা হয়।

ফয়েজ উল্যাহ বলেন, বাজারে কৃত্রিম সংকটকে কাজে লাগিয়ে বেশি মুনাফা আদায়ের উদ্দেশ্যে তেলের বোতলগুলো ঈদের আগেই মজুদ করা হয়েছিল। দোকানটিতে বেশকিছু মেয়াদোত্তীর্ণ পণ্য পাওয়ায় ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, জব্দ করা তেলগুলো আমাদের উপস্থিতিতেই খুচরা ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করেছেন ওই ব্যবসায়ী।


আরও খবর



ব্রিটিশ এমপির বিরুদ্ধে সংসদে পর্নোগ্রাফি দেখার অভিযোগ

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৮ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | ৫৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ব্রিটিশ পার্লামেন্টে বসে এক এমপির বিরুদ্ধে পর্নোগ্রাফি দেখার অভিযোগ উঠেছে। এক নারী মন্ত্রী এ অভিযোগ করেছেন বলে জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য টাইমস।

যার বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে সেই এমপির নাম প্রকাশ করা হয়নি। তবে তিনি ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভ পার্টির সদস্য বলে জানানো হয়েছে।

ওই মন্ত্রী জানিয়েছেন, গত সপ্তাহে পার্লামেন্টে ওই পুরুষ এমপির পেছনে বসেছিলেন তিনি। এসময় তিনি দেখেন ওই এমপি তার মোবাইল ফোনে পর্নোগ্রাফি দেখছেন।

পার্লামেন্টের আরেক নারী সদস্য অভিযোগ করেছেন, তিনিও ওই এমপিকে ভিন্ন সময়ে পার্লামেন্টে পর্নোগ্রাফি দেখতে দেখেছেন। তিনি প্রমাণের জন্য এর ছবি তোলার চেষ্টাও করেছিলেন, কিন্তু ব্যর্থ হয়েছেন।

কনজারভেটিভ পার্টির এমপি পলিন ল্যাথাম বিবিসিকে বলেছেন,  তারা বিশ্বাস করতে পারছেন না যে সত্যিকারের একটি পেশাদারি স্থানে এরকম কিছু ঘটতে পারে।’

তিনি জানান, এই অভিযোগগুলো সত্য প্রমাণিত হয়েছে। ওই এমপিকে তার পদ থেকে এবং দল থেকে বহিষ্কার করা উচিৎ।


আরও খবর



থ্রি-হুইলার-মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই বন্ধু নিহত

প্রকাশিত:বুধবার ০৪ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | ৭২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কে মোটরসাইকেল ও থ্রি হুইলারের মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই বন্ধু নিহত হয়েছেন। মঙ্গলবার রাত ১২টার দিকে ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার দপদপিয়া ইউনিয়নের কাঠেরঘর এলাকায় বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কে এই দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন অপর মোটরসাইকেল আরোহী সুমন নামের এক যুবক। তিনি আশঙ্কাজনক অবস্থায় বরিশাল শের-ই বাংলা চিকিৎসা মহাবিদ্যালয় (শেবাচিম) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

নিহত দুইজন হলেন- বরিশাল নগরীর ২৯ নম্বর ওয়ার্ডের শাহপরান সড়কের বাসিন্দা শাহজাহান মৃধার ছেলে নিরব (২৫) এবং একই এলাকার নাছির হাওলাদারের ছেলে লিমন (২২)।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নিরব তার মোটরসাইকেলে দুই বন্ধু লিমন ও সুমনকে নিয়ে বরিশালের দিকে আসছিলেন। পথিমধ্যে নলছিটি উপজেলার দপদপিয়া ইউনিয়নের কাঠেরঘর এলাকায় বিপরীত দিক  থেকে যাত্রী নিয়ে যাওয়া একটি বেপরোয়া গতির থ্রি হুইলারের সঙ্গে মোটরসাইকেলটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই নিরব নিহত হন এবং আহত লিমন ও সুমনকে উদ্ধার করে  শেবাচিম হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়।

শেবাচিম হাসপাতাল সূত্র জানিয়েছে, ১৫ মিনিট চিকিৎসা নেওয়ার পরে লিমনও মারা যান। তাদের সঙ্গী সুমনের অবস্থাও আশঙ্কাজনক।

বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালের ওয়ার্ড মাস্টার আবুল কালাম বুধবার সকাল ১০টায় হতাহতের তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নলছিটি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আতাউর রহমান বুধবার সকালে জানান, মঙ্গলবার রাতে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছিল। কিন্তু পুলিশ পৌঁছার আগেই নিহত ও আহতদের উদ্ধার করে বরিশালে শেবাচিম হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।


আরও খবর



বিদায় নিচ্ছে পবিত্র মাহে রমজান

প্রকাশিত:সোমবার ০২ মে 2০২2 | হালনাগাদ:শুক্রবার ২০ মে ২০22 | ৮৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

পবিত্র মাহে রমজান,সকল  মুসলিম জাতির নিকট বয়ে  এনেছিলো রহমত, মাগফিরাত ও নাজাতের শান্তির বার্তা নিয়ে মাহে রমজান আমাদের মাঝে এসে উপস্থিত হয়েছিল। আস্তে আস্তে আবার চলেও যাচ্ছে। সঙ্গে চলে যাচ্ছে রোজা, সেহরি, ইফতার, কোরআন তেলাওয়াত, তারাবি, ইতিকাফ ও দান-সদকার মতো বিশেষ বিশেষ ইবাদতের সব সুযোগুলোও।

আমরা কি পেরেছি সেসব ইবাদতের সুযোগগুলোকে কাজে লাগাতে। পুরোপুরি না হোক, নূন্যতম হকও কি আদায় করতে পেরেছি? কোরআন নাজিলের মাস মাহে রমজান। এই কোরআনই রমজান মাসকে মূল্যবান করেছে। তেমনি এ মাসের হক আদায়ে যারা সচেষ্ট হবে নিসন্দেহে তারাও দামী হবে তাতে কোনো ভুল নেই। রমজান মাসে সেহরি, ইফতার, তারাবিসহ সব সময়ে আল্লাহর রহমত ও অনাবিল প্রশান্তি বিরাজ করে।

এ মাসে একটি ফরজ নামাজ ৭০টি ফরজ নামাজের সমান। আর ১টি নফল ১টি ফরজ নামাজের সমান। পাশাপাশি কোরআন তেলাওয়াতের ক্ষেত্রেও রয়েছে অভাবনীয় সুযোগ। এক অক্ষরেই পাওয়া যাবে ৭০০ নেকী। কেউ যদি নিজে না পড়ে অন্যের তেলাওয়াত শুনে তাতেও রয়েছে দ্বিগুণ সওয়াব। পূর্ববর্তী কোনো উম্মতের জন্য অল্প সময়ে নেকী অর্জনের এত বড় সুযোগ ছিল না। কাজেই সুযোগ কাজে লাগানো উচিত। আর মাত্র দু-তিন দিন। তারপর আর এ সুবর্ণ সুযোগটি থাকছে না।

রমজান মাসে দান খয়রাতেও রয়েছে অনেক সওয়াব। ১ টাকা দানে ৭০ টাকা দানের সওয়াব যা অন্য ১১ মাসে পাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। আমাদের অনেকেরই সামর্থ্য নেই বলে রমজান মাসে ওমরাহ করার অফুরন্ত সওয়াবের সুযোগ লুফে নিতে পারি না। আবার এ বছর বৈশ্বিক মহামারি করোনার কারণে যাদের সামথ্য আছে তারাও ওমরা করতে পারেনি। কিন্তু যতটুকু সুযোগ আমাদের হাতের নাগালে আছে তাতো নেয়াই যায়। জীবনে আরেকটি রমজান মাস পাওয়ার কোনো নিশ্চয়তা নেই। তাই সময় থাকতে নেকী লুট করার প্রতিযোগিতায় লিপ্ত হওয়া জরুরি।

রমজান শুধু একটি মাসেরই নাম নয় এটি হচ্ছে একটি চিকিৎসা’, যেটা সামনের পুরো এগারোটি মাসের ওপর নিয়ন্ত্রণ রাখে। এ মাসটি হচ্ছে আত্ম শুদ্ধি, ও আত্ম সমালোচনার মাস। পুরো মাসেই আল্লাহ তায়ালা মুসলিম উম্মার ধনী-গরিব মানুষগুলোর সব ভেদাভেদ দূর করে এক কাতারে দাড় করায়। যাতে ধনিরা অনুধাবন করতে পারে গরিবের অনাহারের কষ্ট। আর তারা এই কষ্ট অনুধাবন করে যেন মহান আল্লাহর বিধান জাকাত প্রদান করে সমাজের ধনী, গরিব সামঞ্জস্যতা রক্ষা করে এটাই আল্লাহর বিধান।

শুধু তাই নয়, রমজান আমাদের সুশৃঙ্খল হতে শিখায়, সংযমী হতে শিখায়, আত্নশুদ্ধি অর্জন করতে শিখায়। তাই আসুন আমরা রমজানের শিক্ষাকে আমাদের জীবনে বাস্তবায়ন করি। জাকাত প্রদান করি, তবে অবশ্যই সুশৃঙ্খল ভাবে। আমাদের যেন একমাত্র উদ্দেশ্য হয় লোক দেখানো নয়, আল্লাহকে সন্তুষ্ট করা। তাহলেই আমরা সফলকাম হতে পারবো।


আরও খবর



বন্যার কারণে সিলেটে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা স্থগিত

প্রকাশিত:বুধবার ১৮ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২০ মে ২০22 | ৪১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বন্যার কারণে সিলেট জেলায় অনুষ্ঠিতব্য দ্বিতীয় ধাপের প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক নিয়োগ-২০২০ এর লিখিত পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি সাপেক্ষে এ পরীক্ষা আগামী ৩ জুন অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা মাহবুবুর রহমান তুহিন।

মন্ত্রণালয় জানায়, সারাদেশে ৪৫ হাজার সহকারী শিক্ষক নিয়োগ করা হবে। এসব পদের বিপরীতে আবেদন করেছেন ১৩ লাখ ৯ হাজার ৪৬১ জন প্রার্থী। সেই হিসেবে প্রতি পদের জন্য লড়ছেন ২৯ প্রার্থী।

প্রথম ধাপে ২২ এপ্রিল, দ্বিতীয় ও তৃতীয় ধাপের লিখিত পরীক্ষা আগামী ২০ মে এবং ৩ জুন সকাল সাড়ে ১০টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত পর্যায়ক্রমে বিভিন্ন জেলায় অনুষ্ঠিত হবে।

 


আরও খবর