Logo
শিরোনাম

বিএনপির টপ টু বটম পদত্যাগ করা উচিত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৭ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৭৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সরকারের বিরোধিতার নামে অন্ধ সমালোচনা করা বিএনপির রাজনীতি বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। শেরেবাংলা এ কে ফজলুল হকের ৫৯তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আজ মঙ্গলবার সকালে তাঁর সমাধিস্থলে আওয়ামী লীগের পক্ষে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে এ মন্তব্য করেন তিনি।

এ সময় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আরও বলেন, বিএনপির কাছে এখন কোনো ইস্যু নেই। তারা আন্দোলন ও নির্বাচনে ব্যর্থ। তাই একটি দায়িত্বশীল বিরোধীদল হিসেবে ব্যর্থতার দায়ে তাদের টপ টু বটম পদত্যাগ করা উচিত।

বিএনপির নেতিবাচক রাজনীতির প্রতি জনগণের কোনো আস্থা নেই উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি নিজের দলকে চাঙা রাখতে যখন যা খুশি তাই বলে যাচ্ছে। তাদের রাজনীতি হচ্ছে সরকার বিরোধিতার নামে অন্ধ সমালোচনা করা।

এ সময় শেরেবাংলা এ কে ফজলুল হক প্রসঙ্গে সেতুমন্ত্রী বলেন, শেরেবাংলা এ কে ফজলুল হকের রাজনীতির মূলমন্ত্র ছিল সাধারণ মানুষের ভাগ্যোন্নয়ন করা। ক্ষমতায় গেলে অনেকেই জনগণের ভাগ্যোন্নয়নের জন্য কাজ করেন না। তবে শেরেবাংলা ও বঙ্গবন্ধু ছিলেন ব্যতিক্রম। তাঁদের পথ অনুসরণ করেই বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একই কাজ করে যাচ্ছেন। এ কে ফজলুল হক অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বিশ্বাসী ছিলেন বলেও জানান ওবায়দুল কাদের।

সেতুমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও এখন সাধারণ মানুষের ভাগ্যোন্নয়নে দিবারাত্রি পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রী সাহসী নেতৃত্বের মাধ্যমে করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলা করে যাচ্ছেন বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

করোনার এই পরিস্থিতিতে ঘরে ঘরে সচেতনতার দুর্গ গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, দলমত নির্বিশেষে সবাইকে সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে।

নিউজ ট্যাগ: ওবায়দুল কাদের

আরও খবর



মহানবীর উদ্ধৃতি বিকৃতি করে সমালোচনার মুখে সৌদি যুবরাজ

প্রকাশিত:শনিবার ০১ মে ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১২ মে ২০২১ | ৭০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
ইসলামের পবিত্রতম স্থানের অধিকারী হওয়ায় সৌদি আরব চরমপন্থা এবং সন্ত্রাসীদের টার্গেট হয়েছিল। বিশেষ করে ১৯৫০-৭০’র দশকে এই সমস্যা জটিল আকার ধারণ করেছিল

একটি হাদিস বিবৃতি করে সমালোচনার মুখে সৌদি আরবের ক্ষমতাশালী যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান। কয়েকদিন আগে দীর্ঘ এক সাক্ষাৎকার দেন যুবরাজ মোহাম্মদ। সেখানে ধর্মীয় চরমপন্থার বিষয় নিয়েও কথা বলেন তিনি। তখনই মহানবী (সা.)-র উদ্ধৃতি বিকৃতি করেন যুবরাজ মোহাম্মদ।

যুবরাজ মোহাম্মদ বলেন, সবকিছুর মধ্যে চরমপন্থা ভুল কাজ। আমাদের নবী মুহাম্মদ (সা.) তার এক হাদিসে বলেছেন, একদিন চরমপন্থীদের উত্থান ঘটবে এবং যখন এটা ঘটবে তখন তিনি তাদের হত্যার নির্দেশ দিয়েছেন। হাদিসের ভুল উদ্ধৃতি দিয়ে সৌদি যুবরাজ আরও বলেন, তাদের ধর্মে চরমপন্থার জন্য আগের জাতিগুলো ধ্বংস হয়ে গেছে।

তবে তিনি যে হাদিসের উদ্ধৃতি দিয়ে বক্তব্য দিয়েছেন, সেখানে চরমপন্থীদের হত্যা করার কথা বলা হয়নি। বরং ওই হাদিসে বলা হয়েছে, ধর্মের মধ্যে বাড়াবাড়ি (চরমপন্থা) থেকে সতর্ক থাকো, ধর্মের বাড়াবাড়ির কারণে তোমাদের আগের জাতিগুলো ধ্বংস হয়ে গেছে।

যুবরাজ মোহাম্মদ বলেন, ধর্ম বা আমাদের সংস্কৃতি বা আরবত্বে চরমপন্থা আমাদের নবী (সা.)-র শিক্ষা, অভিজ্ঞতা এবং ইতিহাস অনুযায়ী গুরুতর একটি বিষয়।

তিনি বলেন, ইসলামের পবিত্রতম স্থানের অধিকারী হওয়ায় সৌদি আরব চরমপন্থা এবং সন্ত্রাসীদের টার্গেট হয়েছিল। বিশেষ করে ১৯৫০-৭০’র দশকে এই সমস্যা জটিল আকার ধারণ করেছিল। কারণ এই অঞ্চলে তখন সোশ্যালিস্ট এবং কমিউনিস্ট প্রজেক্ট’ হাতে নেয়া হয়েছিল। এসব লোক (চরমপন্থী) কোনোভাবেই আমাদের ধর্ম বা আল্লাহর নীতির প্রতিনিধি হতে পারে না। যেকোনো ব্যক্তি চরমপন্থার নীতি গ্রহণ করে, যদি সে সন্ত্রাসী নাও হয়, তবুও তিনি একজন অপরাধী এবং তাকে বিচারের মুখোমুখি হতে হবে।


আরও খবর



এবার মাদানীকে রিমান্ডে নিলো ডিবি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৬ মে ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৬৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

রাজধানীর মতিঝিল থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা মামলায় ৭ দিনের রিমান্ড শেষ হয়েছে শিশুবক্তা রফিকুল ইসলাম মাদানী। এবার নাশকতা মামলায় তাকে ৪ দিনের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা শুরু করেছে গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

বৃহস্পতিবার (৬ মে) ৭ দিনের রিমান্ড শেষে তাকে আদালতে হাজির করে পুলিশ। একইসঙ্গে তদন্ত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা আদালতকে অবহিত করেন পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনায় মতিঝিল থানায় দায়ের করা নাশকতা মামলায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে রিমান্ডে নিয়েছে ডিবি।

গত ২১ এপ্রিল ডিবি হাতে তদন্তাধীন থাকা সংশ্লিষ্ট মামলায় তার ৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছিলেন ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবু সুফিয়ান মোহাম্মদ নোমান।

উল্লেখ্য, গত ২৫ মার্চ রাজধানীর মতিঝিল শাপলা চত্বরে ছাত্র ও যুব অধিকার পরিষদের মোদিবিরোধী মিছিল থেকে শিশুবক্তা রফিকুল ইসলামকে হেফাজতে নিয়েছিল পুলিশ। পরে আবার ছেড়ে দেওয়া হয়।


আরও খবর



অস্বাভাবিকভাবে বেড়েছে সবজির দাম

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১১ মে ২০২১ | ১৪৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
দাম বাড়লেও বাজারে কোনো সবজির কমতি নেই। আলু, পটল, করলা, টমেটো, শিম, লাউ, কাঁচা-পাকা মিষ্টি কুমড়া, ঢেঁড়স, বেগুন, মুলা, লাল শাক, পালং শাক, লাউ শাক সব কিছুই বাজারে ভরপুর। এদিকে দাম বেড়ে প্রতি কেজি ঢেঁড়স

রমজান উপলক্ষে প্রতি বছরই বাড়ে সবজির দাম। তবে এবার তার সঙ্গে দেশব্যাপী লকডাউন হওয়ায় বাজারে এখন বিভিন্ন সবজির দাম বেড়েছে অস্বাভাবিকভাবে।

করোনার কারণে সরকার ঘোষিত লকডাউনের দ্বিতীয় দিন বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) রাজধানীর কয়েকটি বাজার ঘুরে দেখা গেছে, এক সপ্তাহের ব্যবধানে বিভিন্ন সবজির দাম কেজিতে বেড়েছে ৪০ থেকে ৫০ টাকা পর্যন্ত। তবে কিছুটা কমেছে মুরগির দাম। রাজধানীর কারওয়ান বাজার, হাতিরপুল বাজার, আজিমপুর বাজার ঘুরে এ পরিস্থিতি দেখা গেছে।

কাওরান বাজারের পাইকারি ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন, লকডাউনের কারণে অনেক সবজি পৌঁছাতে পারছে না। ফলে দাম বেড়েছে। তবে সরবরাহের সমস্যা না থাকলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে আসবে।

আবার দাম বাড়লেও বাজারে কোনো সবজির কমতি নেই। আলু, পটল, করলা, টমেটো, শিম, লাউ, কাঁচা-পাকা মিষ্টি কুমড়া, ঢেঁড়স, বেগুন, মুলা, লাল শাক, পালং শাক, লাউ শাক সব কিছুই বাজারে ভরপুর। এদিকে দাম বেড়ে প্রতি কেজি ঢেঁড়স ৬০ টাকা, বেগুন (লম্বা) ১০০ টাকা, কালো গোল বেগুন ৯০ টাকা, সাদা/সবুজ বেগুন ৭০ থেকে ৮০ টাকা, পটল ৮০ টাকা, বরবটি বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকা কেজি দরে। এছাড়া প্রতিকেজি শসা ৮০ টাকা, টমেটো ৫০ টাকা, গাজর ৪০ টাকা এবং আলু ২৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে।

বুধবারও এসব সবজির অধিকাংশের দাম কেজি প্রতি ১০ থেকে ১৫ টাকা কম ছিল। এছাড়া গত সপ্তাহে প্রতি কেজি ঢেঁড়স, বেগুন, পটল, বরবটি বিক্রি হয়েছে ৬০ থেকে ৭০ টাকায়। তুলনামূলকভাবে বেড়েছে টমেটো, শসা এবং বেগুনের দাম।

হাতিরপুল বাজারের বিক্রেতা আনিসুর রহামন বলেন, অস্বাভাবিকভাবে বেড়ে গেছে কয়েকটি সবজির দাম। সরবরাহ কম থাকায় এ অবস্থা। কারওয়ান বাজারেও প্রতিটি সবজির দাম বেশি। পাইকারিতে কাওরান বাজারে প্রতি পাল্লায় (৫ কেজি) সবজির দাম ৩০ থেকে ৫০ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে। ফলে আমাদেরও বাড়িয়ে বিক্রি করতে হচ্ছে।

এদিকে, বাজারে মুরগির দাম তূলনামূলকভাবে কিছুটা কমেছে। প্রতি কেজি ব্রয়লার মুরগি ১৭০ টাকায়, লেয়ার ২৪০ টাকায় এবং সোনালী মুরগি বিক্রি হচ্ছে ৩৪০ টাকায়।

নিউজ ট্যাগ: রমজান লকডাউন

আরও খবর



ভারতে করোনার ইতিহাসে একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু

প্রকাশিত:বুধবার ২১ এপ্রিল 20২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৭৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চলমান মহামারি করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যু হয়েছে ভারতে। এই সময়ে দেশটিতে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২ লাখ ৯৪ হাজার ২৯০ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ২০ জনের। দেশটিতে একদিনে মৃত্যুর সংখ্যায় এটি সর্বোচ্চ রেকর্ড।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্য অনুযায়ী, বুধবার (২১ এপ্রিল) আক্রান্তে দ্বিতীয় ও মৃত্যুতে তৃতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে এখন পর্যন্ত সংক্রমিত হয়েছেন এক কোটি ৫৬ লাখ ৯ হাজার ৪ জন এবং মারা গেছেন এক লাখ ৮২ হাজার ৫৭০ জন।

এরই মধ্যে দেশটির বেশ কয়েকটি রাজ্য ফের কড়াকড়ি জারি করা হয়েছে। লকডাউন করা হয়েছে রাজধানী দিল্লিকে। চার ও পাঁচ তারকা মানের হোটেলগুলোকে রোগীর চাপ সামলাতে করোনা হাসপাতালে রূপান্তর করা হচ্ছে।

এ ছাড়া বিশ্বে করোনায় মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৩০ লাখ ৫৭ হাজার এবং আক্রান্ত হয়েছে ১৪ কোটি ৩৫ লাখেরও বেশি মানুষ। গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বব্যাপী সর্বোচ্চ ৮ লাখ ২৪ হাজার ৯৭৫ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এ ছাড়া মারা গেছেন আরও ১৩ হাজার ৯০৫ জন।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, বুধবার সকাল পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মারা গেছেন ১৩ হাজার ৯০৫ জন এবং নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৮ লাখ ২৪ হাজার ৯৭৫ জন। এ নিয়ে বিশ্বে মোট করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৩০ লাখ ৫৭ হাজার ৫৪১ জনের এবং আক্রান্ত হয়েছেন ১৪ কোটি ৩৫ লাখ ৪২ হাজার ৫৫০ জন। এ ছাড়া সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১২ কোটি ১৮ লাখ ৯৬ হাজার ১৫৭ জন।


আরও খবর



ঈদের পরই গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানগুলোকে শৃঙ্খলায় আনা হবে: তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত:বুধবার ১২ মে ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৫৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

কোনো গণমাধ্যমে প্রতিষ্ঠান নিয়োগ দেবে অথচ সাংবাদিকদের বেতন-ভাতা দেওয়া হবে না এমনটি চলতে পারে না বলে মন্তব্য করেছেন তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

সংবাদকর্মীদের বেতন-ভাতা নিশ্চিত করতে ঈদের পরই গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানগুলোকে শৃঙ্খলায় আনার কাজ শুরু হবে বলেও জানান তথ্যমন্ত্রী।


বুধবার (১২ মে) সাড়ে ১১টায় রাজধানীর কাকরাইলে প্রেস ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাস্টের চেক প্রদান অনুষ্ঠান তথ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন। 

তথ্যমন্ত্রী বলেন, সংবাদকর্মীর নিরাপত্তায়, সব প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় ইনস্যুরেন্স বাধ্যতামূলক করা হবে।

এ সময় মন্ত্রী বলেন, যেসব মিডিয়া হাউসে বেতন-ভাতা দেয়া হবে না, অকারণে সংবাদকর্মীকে চাকরিচ্যুত করা হবে সেসব গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানে সরকারি সুযোগ-সুবিধা বন্ধের সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

নিউজ ট্যাগ: ড. হাছান মাহমুদ

আরও খবর

ঈদ মোবারক

শুক্রবার ১৪ মে ২০২১