Logo
শিরোনাম

দেশের সর্বনিম্ন কমিশন রেট এখন পাঠাও বাইকে

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৫১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বাংলাদেশের বাইক রাইড শেয়ারিংয়ে মার্কেট লিডার পাঠাও ১০ শতাংশ কমিশন কমিয়ে এনেছে। এই সিদ্ধান্তের ফলে চালকরা ট্রিপ এর ভাড়া থেকে সর্বোচ্চ ৯০ শতাংশ আয় করতে পারবেন।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) থেকে নতুন এই নীতি কার্যকর হচ্ছে বলে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

এদিন থেকে পিক আওয়ারে (সকাল ৮টা থেকে বেলা ১১টা এবং বিকেল ৫টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত) পাঠাও বাইকে ১০ শতাংশ করে কমিশন নেবে। এছাড়া অফ-পিক আওয়ারে নেবে সর্বোচ্চ ১৫ শতাংশ কমিশন। এটি বাংলাদেশের সব রাইড শেয়ারিং প্ল্যাটফর্মের মধ্যে সর্বনিম্ন কমিশন।

এর আগে পাঠাও বাইকে ঢাকায় ১৫ শতাংশ এবং চট্টগ্রাম ও সিলেটে ২৫ শতাংশ কমিশন প্রযোজ্য ছিল। নতুন নির্ধারিত এই কমিশন সারা দেশের জন্য প্রযোজ্য হবে।

পাঠাওয়ের এই পদক্ষেপের ফলে যাত্রীদের জন্য পাঠাও বাইক আরও বেশি নির্ভরযোগ্য ও সহজলভ্য হবে। বিশেষ করে পিক আওয়ারে যখন রাইড শেয়ারিং সার্ভিসের চাহিদা তুলনামূলকভাবে অনেক বেড়ে যায়, তখন যাত্রীরা আরও সহজে সেবা পাবেন এবং চালকরাও নিজেদের আয় বাড়াতে সক্ষম হবেন।

এ বিষয়ে পাঠাওয়ের সিইও অ্যান্ড ম্যানেজিং ডিরেক্টর ফাহিম আহমেদ বলেন, চালকদের আয় বৃদ্ধি এবং তাদের জীবনমানের উন্নয়নে পাঠাও সুযোগ তৈরি করেছে। এরই ফলশ্রুতিতে পাঠাওয়ের সঙ্গে থাকা বিশাল রাইডার কমিউনিটির ইনকাম আরও বাড়াতে এবং তাদের নিরাপদ ও নির্ভরযোগ্য রাইড শেয়ারিং সেবা প্রদানের স্বীকৃতি স্বরূপ পাঠাও বাইকে কমিশন কমিয়ে আনা হয়েছে।


আরও খবর



আগাম জামিন পেলেন সাংবাদিক শাকিল আহমেদ

প্রকাশিত:সোমবার ০৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৮৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের অভিযোগে করা মামলায় একাত্তর টিভির বার্তা প্রধান শাকিল আহমেদকে আগাম জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট। আজ সোমবার হাইকোর্টে হাজির হয়ে জামিন চাইলে বিচারপতি শেখ মো. জাকির হোসেন ও বিচারপতি খিজির হায়াতের বেঞ্চ তাঁকে চার সপ্তাহের জামিন দেন। একাত্তর টিভির সাংবাদিক শাকিলের বিরুদ্ধে ধর্ষণ অভিযোগে মামলা একাত্তর টিভির সাংবাদিক শাকিলের বিরুদ্ধে ধর্ষণ অভিযোগে মামলা

এদিকে মামলার বাদী পক্ষের আইনজীবী এম সারোয়ার হোসেন বলেন, হাইকোর্টের জামিন আদেশের বিরুদ্ধে আপিল বিভাগে আবেদন করবো। গত ৪ নভেম্বর রাতে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে গুলশান থানায় ওই মামলা দায়ের করা হয়। মামলায় শাকিলের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও ভ্রূণ হত্যার অভিযোগ আনা হয়েছে।

অভিযোগকারী নারী একজন চিকিৎসক, তিনি এর আগে শাকিলের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলনও করেছিলেন। চাকরির জন্য সাত-আট মাস আগে শাকিলের কাছে গিয়েছিলেন তিনি। তখন তাঁর সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা হয়। একপর্যায়ে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে শাকিল তাঁর সঙ্গে দৈহিক সম্পর্ক গড়ে তোলেন। গর্ভবতী হওয়ার পর তাঁর কথায় তিনি ভ্রূণ নষ্ট করলেও শাকিল প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী তাঁকে বিয়ে করেননি।


আরও খবর



লঞ্চ ভাড়া দ্বিগুণ করার প্রস্তাব

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১ | ৯৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

জ্বালানি তেলের দাম বাড়ায় লঞ্চের ভাড়া দ্বিগুণ করার দাবি জানিয়েছে মালিক সমিতি। মালিকদের লঞ্চ ভাড়া বৃদ্ধির প্রস্তাব বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিএ) কাছে একটি চিঠি পাঠানো হয়েছে।

শুক্রবার (৫ নভেম্বর) বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ চলাচল (যাপ) সংস্থা থেকে বিআইডব্লিউটিএ'র চেয়ারম্যানের কাছে ভাড়া বৃদ্ধির প্রস্তাবের চিঠি পাঠানো হয়।

অভ্যন্তরীণ নৌ চলাচল (যাপ) সংস্থার মাহবুব উদ্দিন আহমদ (বীর বিক্রম) স্বাক্ষরিত চিঠিতে বলা হয়, যাত্রীবাহী লঞ্চের যাত্রীভাড়া বৃদ্ধির লক্ষ্যে সংস্থার পক্ষ হতে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয় ও আপনার দপ্তরে বহুবার আবেদন করা হলেও ভাড়া বৃদ্ধির বিষয়ে কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়নি। আগামী ৮ নভেম্বর ভাড়া নির্ধারণের প্রস্তাব প্রণয়নের লক্ষ্যে গঠিত কমিটি একটি সভা আহ্বান করেন। কিন্তু গত ৩ নভেম্বর সরকার হঠাৎ করে জ্বালানি তেল তথা ডিজেলের মূল্য লিটার প্রতি ১৫ টাকা বৃদ্ধির ঘোষণা দেন এবং ওই দিন রাত ১২টা থেকে কার্যকর করার নির্দেশনা দেয়া হয়।

এই পরিস্থিতিতে জাহাজ পরিচালনা ব্যয় বহুগুণ বেড়ে যায়। সংগত কারণে সারাদেশে লঞ্চ মালিকরা যাত্রী ভাড়া বৃদ্ধি করার জন্য সংস্থাকে অনুরোধ করেন। অন্যথায় জাহাজ পরিচালনায় অপারগতা প্রকাশ করেন।

তেলের মূল্য বাড়ানোর পরিপ্রেক্ষিতে করণীয় সম্পর্কে শুক্রবার বিকেলে সারা দেশের লঞ্চ মালিকদের নিয়ে সংস্থার কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে জরুরি সভা অনুষ্ঠিত হয়। চিঠিতে বলা হয়, সভার এক পর্যায়ে ভাড়া বৃদ্ধি বিষয়ে আপনার সাথে মোবাইলে কথা হয়। আপনার প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী আগামীকাল অর্থাৎ ৬ নভেম্বর দ্বি-প্রহরের মধ্যে ভাড়া বৃদ্ধির বিষয়ে আপনার সিদ্ধান্ত প্রদান করার প্রত্যয় মালিকদের জানানো হয়। আপনি একই টেলিফোনে আমাদের প্রস্তাব পাঠানোর জন্য আমাকে অনুরোধ করেন।

জ্বালানি তেলের মূল্য লিটার প্রতি ১৫ টাকা এবং ইতিমধ্যে স্টিল ও অন্যান্য পণ্যের দাম দ্বিগুণের বেশি বেড়েছে, তাই ব্যবসায় টিকে থাকার লক্ষ্যে লঞ্চ ভাড়া ১০০ কি.মি. পর্যন্ত ১ টাকা ৭০ পয়সার পরিবর্তে ৩ টাকা ৪০ পয়সা এবং ১০০ কিলোমিটারের ঊর্ধ্বে ১ টাকা ৪০ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ২ টাকা ৮০ পয়সা নির্ধারণের জন্য অনুরোধ করা হলো।


আরও খবর

বিশ্ববাজারে কমেছে স্বর্ণের দাম

শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১




মাছ ধরার সময় জালে উঠলো লাখ টাকার বান্ডিল

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ১০৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

লালমনিরহাট শহরের জেল রোডে একটি খাল থেকে ১০০ টাকা নোটের ৬৬টি বান্ডিলে ৬৬ লাখ টাকা পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।

বুধবার ১৭ নভেম্বর রাতে সদর থানা পুলিশ এ টাকা উদ্ধার করে।

লালমনিরহাট সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহা আলম জানিয়েছেন, উদ্ধার হওয়া টাকার বান্ডিলের ওপর 'লাকি কুপন', 'সাথী কুপন', 'ভাগ্য বদল' ইত্যাদি লেখা চিরকুট আছে।

তিনি আরও জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে উদ্ধারকৃত টাকাগুলো জাল। পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে বিস্তারিত বলা যাবে।

পুলিশ সূত্র জানায়, ওই খালে স্থানীয় এক ব্যক্তি জাল দিয়ে মাছ ধরার সময় টাকার বান্ডিলগুলো দেখতে পেয়ে পুলিশকে সংবাদ দেন। পরে পুলিশ সেখানে গিয়ে সেগুলো উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

 


আরও খবর



এবার মেয়র জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে মামলা

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৩ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১ | ৪৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
মামলায় গাজীপুরের মেয়র জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ প্রসঙ্গে উস্কানিমূলক বক্তব্য দেওয়ায় অভিযোগ আনা হয়েছে

গাজীপুরের মেয়র জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে রাজবাড়ীর ১নম্বর আমলী আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। আদালতের বিচারক সুমন হোসেন পিবিআই ফরিদপুরকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিল কারার নির্দেশ দিয়েছেন।

মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) দুপুরে মামলাটি দায়ের করেন, বাংলাদেশ মানবাধিকার সোসাইটি রাজবাড়ীর পৌরসভা শাখার সভাপতি শশি আক্তার।

মামলায় গাজীপুরের মেয়র জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ প্রসঙ্গে উস্কানিমূলক বক্তব্য দেওয়ায় অভিযোগ আনা হয়েছে।

এর আগে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে কটূক্তি করার অভিযোগে তাকে গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকে থেকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার করা হয় জাহাঙ্গীর আলমকে। পাশাপাশি আওয়ামী লীগের প্রাথমিক সদস্য পদ থেকেও তাকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

শুক্রবার (১৯ নভেম্বর) বিকাল ৪টায় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয়। মেয়র জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে আওয়ামী লীগের বৈঠক সূত্রে জানা গেছে।


আরও খবর



সুযোগ দিলে আমরাও টিকা তৈরি করতে পারবো

প্রকাশিত:সোমবার ১৫ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৬৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন ‘করোনাভাইরাস মোকাবিলায় আমাদের যে সাফল্য আমরা তার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেয়েছি। জলবায়ু সম্মেলনে গিয়ে আমি এটাও বলে এসেছি, আমরা নিজেরা ভ্যাকসিন তৈরি করতে চাই। ভ্যাকসিন তৈরিতে যে বাধা আছে, সেগুলো আপনাদের সরিয়ে দিতে হবে। এটা উন্মুক্ত করতে হবে। এটা জনগণের প্রাপ্য। এটা জনগণের সম্পদ হিসেবে দিতে হবে। যেন সারাবিশ্বের কোনো মানুষ এই ভ্যাকসিন থেকে দূরে না থাকতে পারে। আমাদের সুযোগ দিলে আমরাও ভ্যাকসিন উৎপাদন করবো। আমাদের সেই সক্ষমতা আছে। সেজন্য আমি জমিও কিনে রেখেছি। আমরা কিন্তু উদ্যোগ নিয়ে কাজ করে যাচ্ছি।’

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে একটি আন্তর্জাতিক পুরস্কার ইউনেস্কো-বাংলাদেশ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজ ইন দ্য ফিল্ড অব ক্রিয়েটিভ ইকোনমি’ প্রবর্তন করায় এর ওপর আনীত প্রস্তাবের আলোচনায় অংশ নিয়ে সোমবার (১৫ নভেম্বর) তিনি এ কথা বলেন।

এর আগে কার্যপ্রণালি বিধির ১৪৭ ধারা অনুযায়ী উপাধ্যক্ষ আবদুস শহীদ এ প্রস্তাব আনেন। প্রস্তাবে তিনি উল্লেখ করেন, সংসদের অভিমত এই যে, জাতিসংঘের শিক্ষা, সংস্কৃতি ও বিজ্ঞানবিষয়ক সংস্থা ইউনেস্কো, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে একটি আন্তর্জাতিক পুরস্কার ইউনেস্কো-বাংলাদেশ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ইন্টারন্যাশনাল প্রাইজ ইন দ্য ফিল্ড অব ক্রিয়েটিভ ইকোনমি’ প্রবর্তন করায় জাতীয় সংসদে বিশেষ আলোচনার মাধ্যমে ইউনেস্কোকে বাংলাদেশের জনগণের পক্ষ হতে আন্তরিক অভিনন্দন ও ধন্যবাদ জানানো হোক।’

এর আগে সংসদে এর ওপর অনেক এমপি-মন্ত্রী আলোচনা করেন। বিরোধীদলীয় উপনেতা জিএম কাদেরও বক্তব্য দেন। বিএনপির সংসদ সদস্য (এমপি) হারুনুর রশীদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর অবদান অল্প সময়ে বলে শেষ করা যাবে না। আলোচনা শেষে প্রস্তাবটি ভোটে দিলে সর্বসম্মতিক্রমে তা গৃহীত হয়।

বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের নিহতদের স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, মাত্র সাড়ে তিন বছরে তিনি একটি যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ গড়ে তুলছিলেন। আন্তর্জাতিক সংস্থার সদস্যপদ লাভ করে বাংলাদেশ। পৃথিবীর কোনো দেশ স্বাধীনতার পর এত অল্প সময়ে এত স্বীকৃতি আদায় করতে পারেনি, যেটা বাংলাদেশ পেরেছিল। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মতো বলিষ্ঠ নেতৃত্ব আমাদের ছিল বলেই সেটা সম্ভব হয়েছিল। কিন্তু আমাদের দুর্ভাগ্য, এ দেশের মানুষের আর্থ-সামাজিক মুক্তির জন্য, স্বাধীনতা অর্থবহ করার জন্য, স্বাধীনতার সুফল বাংলাদেশের ঘরে ঘরে পৌঁছে দেওয়ার জন্য তিনি যখন অর্থনৈতিক কর্মসূচি ঘোষণা দিলেন, দ্বিতীয় বিপ্লবের কর্মসূচির ঘোষণা দিলেন, ঠিক সেই মুহূর্তে তাকে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট নির্মমভাবে হত্যা করা হলো। এ হত্যাকাণ্ড শুধু রাষ্ট্রপতি বঙ্গবন্ধু বা শেখ মুজিবকে না বরং আমাদের পরিবার ও অন্যান্য আত্মীয়স্বজনকেও হত্যা করা হলো।’

তিনি বলেন, ওদের মনে হয় একটাই চিন্তা ছিল। জাতির পিতাকে পরিবারসহ হত্যা করলে বাংলাদেশ যে মহান মুক্তিযুদ্ধে বিজয় অর্জন করেছিল, বিজয়ী জাতি হিসেবে যেভাবে মাথা তুলে বিশ্ব দরবারে চলছিল, সেই জায়গাটা নষ্ট করা। স্বাধীনতার সুফল যেন বাংলাদেশের ঘরে না পৌঁছায়, স্বাধীনতা যেন ব্যর্থ হয়, ওই বিজয় যেন ব্যর্থ হয়, এটাই বোধহয় প্রচেষ্টা ছিল। যেটা আমরা দেখেছি ২১ বছর। সেভাবেই দেশ পরিচালনা করা হয়েছে। অন্যথায় বাংলাদেশের মানুষের যে উন্নয়ন করা যায় সেটা আজ আমরা প্রমাণ করেছি, প্রমাণ করতে পেরেছি।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাদের সব সময় উদ্যোগ রয়েছে। যেটা জাতির পিতা আমাদের সংবিধান দিয়েছেন। আমাদের চার মৌলিক নীতি দিয়েছেন। পাশাপাশি মানুষের মৌলিক অধিকারের কথাগুলো বলেছেন। বাংলার ভূমিহীন মানুষদের ঘরবাড়ি তৈরি করে দেওয়া, চিকিৎসাসেবা মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে দেওয়া, শিক্ষার ব্যবস্থা করা, শিক্ষাকে অবৈতনিক করা।’

তিনি বলেন, একটি যুদ্ধবিধ্বস্ত বাংলাদেশ। কোনো কারেন্সি নোট নেই। এ অবস্থায় প্রাথমিক বিদ্যালয়কে সরকারীকরণ করে দেড় লক্ষাধিক সরকারি চাকরি দেওয়া, এমনকি যেসব পত্রপত্রিকায় আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছিল, যেগুলো তারা চালাতে পারছিল না। সেই সাংবাদিকদের পর্যন্ত সরকারি চাকরির মর্যাদা দিয়েছেন তিনি। প্রত্যেকটি শিল্প-কারখানা—মা যেমন সন্তানকে সেবা-শুশ্রূষা করে সুস্থ করে ঠিক সেভাবে প্রতিটি পাকিস্তানির পরিত্যক্ত কারখানা বা ফেলে দেওয়া বা বন্ধ করে দেওয়া কলকারখানাগুলো তিনি জাতীয়করণ করে চালু করেন।’

তিনি বলেন, বেসরকারি খাত ধীরে ধীরে উন্মুক্ত করে দিয়েছিলেন এবং আমাদের সংবিধানে অর্থনৈতিক নীতিমালায় সেটা বলা আছে। সেই সঙ্গে তিনি সেই যুগেই আমাদের কৃষি যান্ত্রিকীকরণের চিন্তা করেছিলেন। আমাদের ফসল দ্বিগুণ-তিনগুণ বাড়াতে হবে। দেশের মানুষের খাদ্যনিরাপত্তা দিতে হবে। তিনি সবসময় বলতেন, ভিক্ষুক জাতির কোনো ইজ্জত থাকে না।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, তিনি চেয়েছিলেন- বাংলাদেশ যেনো আত্মমর্যাদার সঙ্গে বিশ্ব দরবারে মাথা উঁচু করে চলতে পারে। পঁচাত্তরের পরে আমরা দেখেছি, হাজার হাজার সামরিক বাহিনীর অফিসার, বিমানবাহিনীর অফিসার, সৈনিক, সাধারণ মানুষকে নির্বিচারে হত্যা করা হয়েছে। কারাগারে ফেলে রাখা হয়েছে।

বঙ্গবন্ধু হত্যার পর দেশের প্রেক্ষাপটের বর্ণনা দিয়ে তিনি বলেন, বাংলাদেশে এসে দেখেছি বিজ্ঞান কেউ পড়ে না। বিজ্ঞানের ক্লাস হয় না। বিজ্ঞানের প্রতি কোনো আগ্রহ নেই। গবেষণা তো ছিলই না। এজন্য বিশেষ বরাদ্দ ছিল না।’

’৯৬ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর বিভিন্ন পদক্ষেপের বর্ণনা দিয়ে তিনি বলেন, আমরা পিছিয়ে গিয়েছিলাম কিন্তু এখন আর পিছিয়ে নেই। আমি ধন্যবাদ জানাই বাংলাদেশের জনগণকে। আমাদের তারা বারবার ভোট দিয়েছেন। সেবা করার সুযোগ দিয়েছেন। আমরা সাধ্যমতো চেষ্টা করছি। এই এক দশকের মধ্যে বাংলাদেশ সারাবিশ্বে মর্যাদা পেয়েছে এখন আর বাংলাদেশের কাউকে বাইরে গিয়ে কথা শুনতে হয় না। ভালো কাজটা কেউ চোখে না দেখলে আমাদের কিছু বলার নেই।’

তিনি বলেন, আমরা ইয়াং বাংলা স্টার্টআপ শুরু করেছি এবং এজন্য কিছু বরাদ্দ দিয়েছে। আমার ছেলে সজীব ওয়াজেদ জয়, রেহানার ছেলে রেদওয়ান মুজিব সিদ্দিকসহ আমাদের কিছু ইয়াং সংসদ সদস্য সবাই কিন্তু এই প্রোগ্রাম নিয়েছে।’ অনলাইনের অভূতপূর্ব পদক্ষেপের কথা বর্ণনা করে তিনি বলেন, একটা জিনিস একদিনে তো হয় না, ধাপে ধাপে করতে হয়।’


আরও খবর