শিরোনাম

ঢাকা ইউনিভার্সিটি অ্যালামনাইয়ের 'শতবর্ষের মিলনমেলা' স্থগিত

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ঢাকা ইউনিভার্সিটি অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের ১৪ ও ১৫ জানুয়ারির 'শতবর্ষের মিলনমেলা' অনুষ্ঠানটি সাময়িকভাবে স্থগিত করা হয়েছে। বর্তমান করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সোমবার সন্ধ্যায় অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি এ. কে. আজাদ এবং মহাসচিব রঞ্জন কর্মকার স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, বর্তমান করোনা পরিস্থিতির কারণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে ঢাকা ইউনিভার্সিটি অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের ১৪ ও ১৫ জানুয়ারির 'শতবর্ষের মিলনমেলা' অনুষ্ঠানটি সাময়িকভাবে স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে পরবর্তী তারিখ সম্মানিত সদস্যদের জানিয়ে দেওয়া হবে।

অনুষ্ঠানটি সাময়িকভাবে স্থগিত হওয়ায় বিজ্ঞপ্তিতে আন্তরিকভাবে দুঃখ প্রকাশ করা হয়।

অ্যাসোসিয়েশনের মহাসচিব রঞ্জন কর্মকার বলেন, 'বিকেলে করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধকল্পে সরকারের পক্ষ থেকে কিছু বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। এ বিষয়ে পরিপত্র দেওয়ার পর আমরা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করেছি। সরকারের বিধিনিষেধ এবং বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে আমরা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে অনুষ্ঠানের পরবর্তী তারিখ জানিয়ে দেওয়া হবে।'


আরও খবর

ফের অবরুদ্ধ শাবি ভিসি !

সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২




রমেক হাসপাতালে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড, হুড়োহুড়িতে আহত অর্ধশতাধিক

প্রকাশিত:সোমবার ২০ ডিসেম্বর ২০21 | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৯৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (রমেক) অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় হুড়োহুড়ি করে নামতে গিয়ে অর্ধশতাধিক রোগী কমবেশি আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে।

সোমবার সাড়ে ১০টার দিকে রমেকের দ্বিতীয় তলার ৭ নম্বর ওয়ার্ডে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিট প্রায় আধাঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে এর আগেই হাসপাতালের কয়েকটি শয্যা ও ওয়ার্ডে কিছু অংশ পুড়ে যায়।

রমেকের পরিচালক ডা. মোহাম্মদ রেজাউল করিম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, মেডিকেলের দ্বিতীয় তলার ৭নং মেডিসিন ইউনিটে আগুন লাগে। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিট প্রায় আধাঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। আগুনে হাসপাতালের কয়েকটি শয্যা ও ওই ওয়ার্ডে কিছু অংশ পুড়ে যায়। তাৎক্ষণিকভাবে আগুন লাগার কারণ ও ক্ষতির পরিমাণ জানা যায়নি।

তবে আরেকটি সূত্র জানায়, সকালে আগুন লাগার খবরে হুড়োহুড়ি করে নামতে গিয়ে অর্ধশতাধিক রোগী কমবেশি আহত হয়েছেন।

 


আরও খবর

আবারও যাত্রীবাহী লঞ্চে আগুন

রবিবার ০৯ জানুয়ারী ২০২২

শরীয়তপুর-চাঁদপুর নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ

বৃহস্পতিবার ০৬ জানুয়ারী ২০২২




আজকের ভালো মন্দ

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

আজ আপনার জন্মদিন হলে পাশ্চাত্য জ্যোতিষে আপনি মকর রাশির জাতক/জাতিকা। আপনার জন্মসংখ্যা : ৯। আপনার ওপর প্রভাবকারী গ্রহ : শনি ও মঙ্গল। আপনার শুভ সংখ্যা : ৮ ও ৯। শুভ বার : শনি ও মঙ্গল। শুভ রত্ন : নীলা ও রক্তপ্রবাল।

মেষ (২১ মার্চ-২০ এপ্রিল)

আইনগত ঝামেলা এড়িয়ে চলুন। গোপন শত্রুরা ক্ষতি করার চেষ্টা করতে পারে। গোপন শত্রু সম্পর্কে সতর্ক থাকুন। শারীরিক অসুস্থ তাকে অবহেলা করবেন না। ব্যয় কমানোর চেষ্টা করুন।

বৃষ (২১ এপ্রিল-২০ মে)

শ্রমিক নেতাদের জন্য সময় অনুকূল থাকতে পারে। সাংগঠনিক কাজে সুফল পাবেন। কোনো আশা পূরণ হতে পারে। আর্থিক দিক ভালো যাবে। পেশাগত যোগাযোগ ফলপ্রসূ হতে পারে।

মিথুন (২১ মে-২০ জুন)

চাকরিজীবীদের জন্য সময় অনুকূল থাকতে পারে। কর্মস্থলে নিজের কর্তৃত্ব বজায় রাখতে পারবেন। বেকারদের কারো কারো চাকরি হতে পারে। সামাজিক কাজে অংশ নিতে পারেন। পাবলিক ইমেজ বৃদ্ধি পাবে।

কর্কট (২১ জুন-২০ জুলাই)

সামাজিক অগ্রগতি অব্যাহত থাকতে পারে। উচ্চ শিক্ষার্থীদের জন্য সময় অনুকূল থাকতে পারে। জ্ঞানস্পৃহা বৃদ্ধি পাবে। কাজকর্মের ভাগ্যের আনুকূল্য পেতে পারেন।

সিংহ (২১ জুলাই-২১ আগস্ট)

অতীন্দ্রিয় শাস্ত্রাদির প্রতি আগ্রহবোধ করতে পারেন। ব্যবসায়িক দিক ভালো যাবে না। বিক্রয়-বাণিজ্যে লোকসান হতে পারে। সামাজিক সংকট এড়িয়ে চলুন। আজ কোনো ঝুঁকি নেবেন না।

কন্যা (২২ আগস্ট-২২ সেপ্টেম্বর)

ব্যবসায়িক দিক ভালো যেতে পারে। বিক্রয়-বাণিজ্যে লাভযোগ আছে। কোনো ঘনিষ্ঠ বন্ধুর সহযোগিতা পেতে পারেন। পারস্পরিক সামাজিক সম্পর্ক বজায় রাখুন। অপরের প্রতি সদাচরণ করুন।

তুলা (২৩ সেপ্টেম্বর-২২ অক্টোবর)

কর্মপরিবেশ খুব একটা অনুকূল না-ও থাকতে পারে। কর্মস্থলে ঝামেলা এড়িয়ে চলুন। শত্রু সম্পর্কে সতর্ক থাকুন। শারীরিক অসুস্থতাকে অবহেলা করবেন না। প্রয়োজনে চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করুন।

বৃশ্চিক (২৩ অক্টোবর-২১ নভেম্বর)

বিদ্যার্থীদের জন্য দিনটি শুভ। পড়াশোনায় মন বসাতে পারবেন। ধর্মীয় কাজে আনন্দ পাবেন। সন্তানকে নিজের নিয়ন্ত্রণে রাখার চেষ্টা করুন। রোমান্টিক প্রস্তাবে সাড়া পেতে পারেন।

ধনু (২২ নভেম্বর-২০ ডিসেম্বর)

মাতৃস্বাস্থ্য ভালো যেতে পারে। অসুস্থ মায়ের আরোগ্য লাভ হতে পারে। মন ভালো থাকবে। জ্ঞানস্পৃহা বৃদ্ধি পাবে। কোনো প্রত্যাশা পূরণ হতে পারে।

মকর (২১ ডিসেম্বর-১৯ জানুয়ারি)

নিজের প্রভাব প্রতিপত্তি বৃদ্ধি পেতে পারে। আত্মীয়দের সঙ্গে যোগাযোগ হতে পারে। ব্যক্তিগত যোগাযোগে সুফল পাবেন। প্রতিবেশীদের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখুন। প্রাপ্ত তথ্য ভালোভাবে যাচাই করে নিন।

কুম্ভ (২০ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি)

আর্থিক দিক ভালো যাবে। প্রাপ্তিযোগ আছে। পড়াশোনায় আনন্দ পাবেন। প্রদত্ত প্রতিশ্রুতি রক্ষা করতে পারবেন। অধীনদের কাজে লাগাতে পারবে।

মীন (১৯ ফেব্রুয়ারি-২০ মার্চ)

আত্মপ্রতিষ্ঠার চেষ্টা জোরদার করুন। সেক্ষেত্রে সাফল্য পেতে পারেন। শরীর ভালো থাকবে। ব্যক্তিত্ব দিয়ে অন্যকে প্রভাবিত করতে পারবেন। সকলের প্রতি বিনয়ী আচরণ করুন।

নিউজ ট্যাগ: আজকের রাশিফল

আরও খবর

মুখে স্বাদ ফেরাতে বানান মুরগির পুলি

সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২

চাইনিজ সবজি রান্নার সহজ রেসিপি

সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২




ফেলানী হত্যার ১১ বছর, ন্যায় বিচারের অপেক্ষায় পরিবার

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৭ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ফেলানী হত্যার ১১ বছর হলো আজ (৭ জানুয়ারি)। ২০১১ সালের ৭ জানুয়ারি কুড়িগ্রামের অনন্তপুর সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের গুলিতে নির্মম মৃত্যু হয় কিশোরী ফেলানীর। সাড়ে চার ঘন্টা কাঁটাতারে ঝুলে ছিলো তার মৃতদেহ। কয়েকবার বিচারকার্য পরিচালিত হলেও প্রধান আসামী অমিয় ঘোষ দুদফা খালাস পান। ফেলানীর পরিবার ভারতের সুপ্রিম কোর্টে রিট আবেদন করে ন্যায় বিচারের আশায় প্রহন গুণছেন। তবে দীর্ঘ ১১ বছরে বিচার না পাওয়ায় হতাশ ফেলানীর পরিবার ও এলাকাবাসী।

ফেলানীর ১১তম মৃত্যুবার্ষিকীতে তার বাড়িতে মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করেছে তার পরিবার। কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার রামখানা ইউনিয়নের কলোনীটারী গ্রামের নুরুল ইসলাম নুরু পরিবার নিয়ে থাকতেন ভারতের আসাম রাজ্যের বঙ্গাইগাঁও গ্রামে। মেয়ে ফেলানীর বিয়ে ঠিক হয় বাংলাদেশে। তাই ২০১১ সালের ৬ জানুয়ারি মেয়েকে নিয়ে রওনা হন দেশের উদ্দেশ্যে। ৭ জানুয়ারি ভোরে ফুলবাড়ির অনন্তপুর সীমান্ত দিয়ে কাঁটাতারের উপর মই বেয়ে আসার সময় বিএসএফ সদস্য অমিয় ঘোষের গুলিতে মর্মান্তিক মৃত্যু হয় ফেলানীর। সাড়ে চার ঘন্টা ঝুলে থাকে মরদেহ। ঘটনার আড়াই বছর পর ভারতে বিএসএফের বিশেষ কোর্টে শুরু হয় বিচার। ৬ সেপ্টেম্বর ২০১৩ অভিযুক্ত অমিয় ঘোষকে নির্দোষ রায় দিলে তা প্রত্যাখান করে পুনঃবিচারের আবেদন করেন ফেলানীর বাবা।

একইভাবে ২০১৫ সালের ২ জুলাই অমিয় ঘোষকে নির্দোষ রায় দিলে ফেলানীর বাবা ভারতের মানবাধিকার সুরক্ষা মঞ্চ (মাসুম)এর মাধ্যমে হত্যার বিচার ও ক্ষতিপূরণ দাবী করে দেশটির সুপ্রিম কোর্টে রিট আবেদন করেন। ২০১৫ সালের ১৩ জুলাই রিট গ্রহণ করে সুপ্রিম কোর্ট। বারবার পিছিয়ে যাচ্ছে শুনানির তারিখ। বিচারকাজ পিছিয়ে যাওয়ায় হতাশ ফেলানীর বাবা-মা। বিচার নিয়ে হতাশ ফেলানীর এলাকাবাসীও।

ফেলানীর বাবা নুরুল ইসলাম নুরু বলেন, ১১ বছরেও মেয়ের হত্যার বিচার পাইলাম না। অনেক কান্নাকাটি করছি। কিন্তু ওনারা বিচারডা কইর‌্যা দিতাছে না।’ ফেলানীর মা জাহানারা বেগম বলেন, আমার ফেলানীরে যে রকমভাবে কাঁটাতারে ঝুলাইয়া রাখছে, বিএসএফ এর যেন ওই রকম শাস্তি হয়। কারো সন্তান য্যান এরকম কষ্ট না পায়।’

তবে দীর্ঘসময় চলে গেলেও ফেলানী হত্যার বিচারের আশা এখনও রয়েছে বলে মনে করেন কুড়িগ্রামের পাবলিক প্রসিকিউটর ও ফেলানী পরিবারকে আইনী সহায়তা দেয়া আইনজীবী অ্যাডভোকেট আব্রাহাম লিংকন। তিনি মনে করেন, রিটটির নিষ্পত্তি হলে ফেলানীর পরিবার ন্যায় বিচার পাবার সম্ভাবনার পাশাপাশি সীমান্ত হত্যা বন্ধে সুপ্রিম কোর্টের কিছু নির্দেশনা হয়তো আসবে। সীমান্তে শান্তি ফিরে আসার ক্ষেত্রে তা সহায়ক হতে পারে।


আরও খবর



আরও ২৮ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে ভর্তি

প্রকাশিত:শনিবার ১৮ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী ২০২২ | ৬৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২৮ হাজার ১২৭ জন আর তাদের মধ্যে চিকিৎসা নিয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন ২৭ হাজার ৮৬২ জন

গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২৮ জন। তাদের মধ্যে ঢাকার হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২১ জন আর ঢাকার বাইরের হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন সাত জন।

শনিবার ( ১৮ ডিসেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম ডেঙ্গু বিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায়।

কন্ট্রোল রুম জানায়, বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি আছেন ১৬৪ জন। তাদের মধ্যে ঢাকার ৪৬টি হাসপাতালে ভর্তি আছেন ১১২ জন আর ঢাকার বাইরে অন্যান্য বিভাগের হাসপাতালে ভর্তি আছেন ৫২ জন। চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২৮ হাজার ১২৭ জন আর তাদের মধ্যে চিকিৎসা নিয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন ২৭ হাজার ৮৬২ জন।

চলতি বছরে এখন পর্যন্ত ১০১ জনের মৃত্যু হয়েছে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে, জানাচ্ছে কন্ট্রোল ‍রুম।

নিউজ ট্যাগ: ডেঙ্গু জ্বর

আরও খবর

দেশে মোট ৫৫ জনের দেহে ওমিক্রন শনাক্ত

সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২




বিবাহবিচ্ছেদের পর দু’জনেই ভাল আছি : নাগা-সামান্থা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৩ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ১৬ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিবাহবিচ্ছেদের কারণে মানসিক ভাবে ভেঙে পড়ার কথা অকপটে স্বীকার করে নিয়েছিলেন সামান্থা প্রভু। কিন্তু চার বছরের দাম্পত্য কেন ভাঙল, তা নিয়ে একটি বাক্যও উচ্চারণ করেননি কখনও। অভিনেত্রীর মতোই কুলুপ এঁটেছিলেন তাঁর প্রাক্তন স্বামী নাগা চৈতন্য। তবে বিচ্ছেদ ঘোষণার প্রায় চার মাস পর এই সিদ্ধান্ত নিয়ে মুখ খুললেন দক্ষিণী তারকা।

সম্প্রতি এক অনুষ্ঠানে গিয়ে এ প্রসঙ্গে নাগা বলেন, কঠিন সময়ে পুরো পরিবার আমার পাশে ছিল। আমাদের দুজনের ভালর জন্যই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম। ও খুশি। আমিও ভাল আছি। পেশাগত ভাবেও আমরা এগিয়ে যাচ্ছি। অর্থাৎ বিচ্ছেদ নিয়ে কথা বললেও এখনও এই পদক্ষেপের কারণ স্পষ্ট করে জানালেন না দক্ষিণী তারকা।

তবে ইন্ডাস্ট্রির গুঞ্জন, পর্দায় সামান্থার খোলামেলা সাহসী দৃশ্য করা নিয়ে আপত্তি ছিল নাগা এবং তাঁর মা-বাবার। কিন্তু শ্বশুরবাড়ির চাপিয়ে দেওয়া এই ফতোয়া উপেক্ষা করেই দ্য ফ্যামিলি ম্যান ২-এ যৌন দৃশ্যে অভিনয় করেন সামান্থা। অল্লু অর্জুনের পুষ্পা: দ্য রাইজ ছবিতে একটি আইটেম গানে দেখা যায় তাঁকে। অনেকেই বলেছেন, অভিনেত্রীর এই পদক্ষেপই চিড় ধরায় তাঁদের রূপকথার দাম্পত্যে।

মাস খানেক আগে একটি সাক্ষাৎকারে নাম না করেই নাগা বলেছিলেন, আমি সব ধরনের চরিত্রে অভিনয় করতে রাজি। কিন্তু এমন কোনও চরিত্র করব না, যা আমার বা আমার পরিবারের সম্মান নিয়ে প্রশ্ন তুলবে, অথবা আমার পরিবারের সদস্যদের লজ্জায় ফেলবে। অভিনেতার এই মন্তব্যের সঙ্গে যাবতীয় জল্পনাকে মিলিয়ে দুয়ে দুয়ে চার করেছিলেন অনেকেই।


আরও খবর