Logo
শিরোনাম

‘একতারা’ প্রতীক পেলেন হিরো আলম

প্রকাশিত:বুধবার ১৮ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ৪৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বগুড়া-৪ ও বগুড়া-৬ দুই আসনের উপনির্বাচনে আবারও সিংহ প্রতীক নিয়ে লড়তে চেয়েছিলেন আশরাফুল আলম ওরফে হিরো আলম। তবে তাকে দেওয়া হয়েছে একতারা প্রতীক। বুধবার দুপুর ২টার দিকে রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক সাইফুল ইসলাম হিরো আলমের হাতে তার বরাদ্দকৃত প্রতীক তুলে দেন।

এ সময় জেলা প্রশাসক সাইফ ইসলাম ব‌লেন, মহামান‌্য হাই‌কোর্ট থে‌কে আমরা আদেশ পেয়েছি। আমাদেরকে হিরো আলমকে প্রতীক বরাদ্দের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। সেই নির্দেশনার আলোকে আজকে বগুড়া-৪ এবং বগুড়া-৬ এই দুটি আসনের উপনির্বাচনের জন্য তাকে একতারা’ প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হলো।’

প্রতীক বরাদ্দ পেয়ে হিরো আলম বলেন, আ‌মি সিংহ প্রতীক নি‌য়ে নির্বাচন কর‌তে চে‌য়ে‌ছিলাম। কিন্তু প্রতীক‌টি অন‌্য একটি রাজ‌নৈ‌তিক দলের নিবন্ধনে থাকায় আমি পাইনি। এতে আফ‌সোস নেই। বিকল্প প্রতীক হিসেবে আমি একতারা’ চয়েস করেছিলাম। সেটিই পেয়েছি।’

‘একতারা’ প্রতীক পছন্দ করার কারণ জানতে চাইলে হিরো আলম বলেন, আমি অভিনয় জগতের মানুষ। অভিনয় ও গান নিয়ে আমার কাজ। এ জন্য একতারা প্রতীক পছন্দ করেছি। প্রতীকটি পেয়ে আমি খুব খুশি।’

হিরো আলম আরও বলেন, গতবারের মতো এবারও অনেক যুদ্ধ করে আমাকে প্রার্থিতা পেতে হয়েছে। কেন এরকম বারবার হয়রানি করা হয় জানি না।’

স্বঘোষিত হিরো বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠ হওয়ার ব্যাপারে আমি পুরোপুরি আশাবাদী। পাশাপাশি সাধারণ মানুষ তাদের সেবা করার জন্য আমাকেই সুযোগ দেবেন বলে আমি নিশ্চিত। আমি আগামীকাল থেকেই নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করব। আমার তো এমনিতেই দেরি হয়ে গেছে। আমি সোশ্যাল মিডিয়া এবং ভোটারদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট চাইব।’

এর আগে ২০১৮ সালের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিংহ প্রতীক নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করেছিলেন হিরো আলম। তবে জিততে পারেননি। আরও একবার সংসদ সদস্য হওয়ার মিশনে নেমেছেন ফেসবুক ও ইউটিউবের এই ভাইরাল তারকা।

দলীয় সিদ্ধান্তে দুটি আসন থেকে বিএনপির সংসদ সদস্যরা পদত্যাগ করায় বগুড়া-৪ ও বগুড়া-৬ আসনে আগামী ১ ফেব্রুয়ারি ভোট গ্রহণের জন্য তফসিল ঘোষণা করেছে ইসি। এই দুই আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে মনোনয়নপত্র কিনে প্রার্থী হয়েছেন হিরো আলম। দুটি আসনেই তিনি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে লড়বেন।

যদিও দুটি আসনেই তার মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করেছিল নির্বাচন কমিশন- ইসি। কারণ হিসেবে বলা হয়, হিরো আলমের ১ শতাংশ ভোটার তালিকায় গরমিল পাওয়া গেছে। সেখানে কয়েকজন ভোটারের সমর্থন না পাওয়ায় তার মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। আইনি লড়াইয়ে মঙ্গলবার তা ফিরে পান হিরো আলম।

একই ভাবে ২০১৮ সালের নির্বাচনেও প্রাথমিক অবস্থায় তার প্রার্থিতা বাতিল করেছিল নির্বাচন কমিশন। সে বারও হাইকোর্টে রিট আবেদন করে তা ফিরে পেয়েছিলেন হিরো আলম।


আরও খবর

আপাতত দেশে আসছে না 'পাঠান'

বুধবার ২৫ জানুয়ারী ২০২৩




চুরি হওয়া ফোন কোথায় আছে জানাবে গুগল!

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৩ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ৪০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

এবার আইফোনের মত নতুন ফিচার নিয়ে আসছে গুগল। এই ইনবিল্ট ফিচারের জন্য ফোন হারিয়ে যাওয়া বা চুরি হওয়া ফোন ট্র্যাক করার জন্য সুবিধা পাওয়া যাবে। গুগল প্লে স্টোরে রয়েছে Advertisements Find My Device নামের একটি অ্যাপ। এই অ্যাপ তখনই কাজ করে যখন ফোনের নেট অন থাকে। নেট অফ থাকলে এটা কাজ করে না। এখন এই সমস্যা দূর করার জন্য কাজ করেছে গুগল। 

এখন নেট অফ থাকলেও জানা যাবে ফোনের লোকেশন। গুগল এমনটাই জানিয়েছে। একটি নতুন ফিচার নিয়ে আসছে। এই ফিচার পুরোপুরি চালু হলে ফোনের নেট অন না করেও খোঁজ মিলবে।

অপরদিকে ডাক্তারের লেখা প্রেসক্রিপশন পড়ে বেশিরভাগ সময়ই কিছু বোঝার উপায় থাকে না। পাঠ উদ্ধার করতে হিমশিম খেতে হয় রোগীর আত্মীয়-স্বজন, এমনকি ওষুধ দোকানের কর্মচারীকেও। এদিকে চিকিৎসকদের দুর্বোধ্য লেখা অনুবাদের চেষ্টায় নেমেছে গুগল। সম্প্রতি ভারতে আয়োজিত বার্ষিক সম্মেলনে সার্চ জায়ান্ট গুগল জানায়, ডাক্তারদের হাতের লেখা বুঝতে তারা ফার্মাসিস্টদের সঙ্গে কাজ করছে।

গুগলের এই নতুন ফিচারটির আত্মপ্রকাশ ঘটবে গুগল লেন্সে। এর মাধ্যমে প্রেসক্রিপশনের ছবি তোলার পাশাপাশি ফটো লাইব্রেরি থেকেও ছবি আপলোডের সুযোগ পাবেন ব্যবহারকারীরা। ওই অ্যাপ ছবিটি প্রসেস করার পর প্রেসক্রিপশনে উল্লেখ করা বিভিন্ন ওষুধের নাম শনাক্ত করবে। সম্মেলনে এর একটি নমুনাও দেখানো হয়েছে। তবে নতুন ফিচারটি কবে ব্যবহারকারীদের জন্য উন্মুক্ত হবে তা নিয়ে এখনো কিছু জানায়নি এই প্রযুক্তি জায়ান্ট।

নিউজ ট্যাগ: আইফোন

আরও খবর



রমজানে নিত্যপণ্যের কোনো সংকট হবে না: বাণিজ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১২ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ৩৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, এবার রমজানে নিত্যপণ্যের কোনো সংকট হবে না। আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর হাজারীবাগে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ দাবি করেন তিনি।

দেশে ডলার সংকট থাকলেও পণ্য আমদানিতে কোনো সমস্যা হবে বলে জানান বাণিজ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, পণ্য আমদানিতে এলসি খুলতেও কোনো জটিলতা নেই।

এর আগে গত ৪ জানুয়ারি সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে দ্রব্যমূল্য ও বাজার পরিস্থিতি পর্যালোচনা সংক্রান্ত টাস্কফোর্সের সভা শেষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেন, ভোজ্যতেল, পেঁয়াজ, মসুর ডাল, ছোলা, খেজুর ও চিনি রমজান মাসের জন্য দরকারি পণ্য। এ ৬টি পণ্য মজুত রাখার ব্যবস্থা করা হবে। আগামী রমজান মাসে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য সরবরাহ নিয়ে কোনো সমস্যা হবে না বলেও আশ্বাস দেন তিনি।

সে সময় বাণিজ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, এলসি খোলা নিয়ে আলোচনা হয়েছে, আমরা এ বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের সঙ্গে কথা বলব। আশা করি, এ সমস্যা শিগগিরই সমাধান হবে।

এছাড়া রমজান মাস সামনে রেখে বর্তমান অবস্থা বিবেচনায় ভোজ্যতেলের দাম আর বাড়বে না বলেও আশ্বাস দিয়েছিলেন টিপু মুনশি।


আরও খবর



যে গ্রামে বাস করলেই মিলবে লাখ টাকা!

প্রকাশিত:শনিবার ১৪ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ৩৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

যে কোনো দেশে বসবাস করতে হলে বাসিন্দাদের সরকারকে তার উপার্জনের ভিত্তিতে ট্যাক্স দিতে হয়। তবে যাদের অবস্থা খারাপ সেসব বাসিন্দাদের সরকারি বিভিন্ন প্রকল্পের আওতায় ভাতা দেওয়া হয় বটে,তবে তার পরিমাণ খুবই সামান্য।

তবে এমনও স্থান রয়েছে যেখানে গিয়ে বসতি গড়তে সরকার বিপুল পরিমাণ টাকা দেবে। এমনই তিনটি স্থান হচ্ছে সুইৎজারল্যান্ডের অ্যালবিনে, ইতালির প্রেসি-অ্যাকোয়ারটিকা এবং গ্রিসের অ্যান্টিকায়থেরা হদিস।

জানা গেছে, সুইজারল্যান্ডের ছোট্ট গ্রাম অ্যালবিনে। সবুজ উপত্যকায় ঘেরা এই গ্রামটি প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর। তবে ওই গ্রামের জনসংখ্যা মাত্র ২৫০ জন। তাই গ্রামের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখতে যারা সেখানে বসতি স্থাপন করে বসবাস করবে সরকারের পক্ষ থেকে তাদের ৬০ হাজার ডলার (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় সাড়ে ৬২ লাখ টাকা) দেওয়া হবে।

ইতালির দুই শহর প্রেসি ও অ্যাকোয়ারটিকা এক হয়ে এখন স্যালেন্টো নামে পরিচিত। এখানেও সেই একই সমস্যা। এই শহরে গিয়ে যদি কেউ বসতি গড়ে তবে সরকার সেখানে ব্যবসা শুরু করার জন্য বাসিন্দাকে ৩০ হাজার ডলার (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৩১ লাখ টাকা) দেবে। গত বছর এই অঞ্চলে ৬০ জনের জন্ম হয়েছিল, অপরদিকে মৃত্যু হয়েছে প্রায় ১৫০ জনের।

এছাড়া গ্রিসের অ্যান্টিকায়থেরা শহরটিও প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর, চোখ সরানো দায়। এর প্রাকৃতিক পরিবেশ মনোমুগ্ধকর। এই জায়গায় মোট ৫০ জনের বসতি। সেখানেও অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখার জন্য সরকার বিশেষ ভাতার ব্যবস্থা করেছে। বলা হয়েছে তিন বছরের জন্য কেউ যদি সেখানে গিয়ে বসতি গড়ে তাকে প্রতি বছর ৬০০ ডলার যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৬২ হাজার টাকা দেওয়া হবে।

নিউজ ট্যাগ: সুইজারল্যান্ড

আরও খবর



শানাকার সেঞ্চুরিতেও শ্রীলংকার হার

প্রকাশিত:বুধবার ১১ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ২৫ জানুয়ারী ২০২৩ | ১৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিরাট কোহলির সেঞ্চুরির জবাবে সেঞ্চুরি করেছেন শ্রীলংকার অধিনায়ক দাসুন শানাকা। তার সেঞ্চুরির পরও হার এড়াতে পারেনি সফরকারীরা। ৩৭৪ রানের বিশাল টার্গেট তাড়ায় ৮ উইকেট হারিয়ে ৩০৬ রানে ইনিংস থামায় শ্রীলংকা। ৬৭ রানের জয়ে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে যায় ভারত।

মঙ্গলবার গুয়াহাটিতে টস হেরে প্রথমে ব্যাট করে স্বাগতিক ভারত। এদিন বিরাট কোহলির (১১৩) সেঞ্চুরি আর রোহিত শর্মা (৮৩) ও শুভমান গিলের (৭০) ফিফটিতে ভর করে ৭ উইকেটে ৩৭৩ রানের পাহাড় গড়ে ভারত।

টার্গেট তাড়া করতে নেমে ২৩ রানে ২ উইকেট হারিয়ে কোণটাসা হয়ে যায় শ্রীলংকা। দলের হাল ধরে রাখেন ওপেনার পাথুম নিশানকা। মিডল অর্ডারে তাকে সঙ্গ দেন চারিথা আসালঙ্কা, ধনঞ্জয়া ডি সিলভা ও অধিনায়ক দাসুন শানাকা।শানাকা ৪৪ বলে ১০৮ রান করে অপরাজিত থাকেন। ৮০ বলে ৭২ রান করেন নিশানকা। ৪০ বলে ৪৭ রান করেন ডি সিলভা। 


আরও খবর



ভূমি আইন সম্পর্কিত খবর ভুয়া : মন্ত্রণালয়ের গণবিজ্ঞপ্তি

প্রকাশিত:রবিবার ২২ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ২৫ জানুয়ারী ২০২৩ | ২৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ভূমি আইন পাস হয়েছে, ১০ জানুয়ারি থেকে কার্যকর হয়েছে এমন তথ্যকে ভুয়া খবর বা গুজব বলে দাবি করেছে ভূমি মন্ত্রণালয়। রোববার (২২ জানুয়ারি) ভূমি মন্ত্রণালয় থেকে এ সংক্রান্ত গণবিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়।

এতে বলা হয়, ভূমি আইন পাস হয়েছে, ১০ জানুয়ারি থেকে কার্যকর হয়েছে মর্মে একটি ভুয়া খবর/গুজব সম্প্রতি বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে/ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়েছে। যা ভূমি মন্ত্রণালয়ের নিয়মিত সংবাদ পর্যালোচনার সময় নজরে আসে। এ ধরনের ভুয়া খবর/গুজব জনমনে বিরূপ প্রভাব ও বিভ্রান্তি সৃষ্টি করছে- যা মোটেই কাম্য নয়।

প্রকৃত তথ্য হচ্ছে ভূমি আইন নামে কোনো আইন জাতীয় সংসদে এখন পর্যন্ত প্রণয়ন করা হয়নি। সর্বসাধারণকে এ ধরনের ভুয়া খবর/গুজবের বিষয়ে অধিকতর সতর্ক থাকার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ জানানো যাচ্ছে।

নিউজ ট্যাগ: ভূমি মন্ত্রণালয়

আরও খবর