Logo
শিরোনাম

ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বে ৫ মুসল্লির মৃত্যু

প্রকাশিত:শনিবার ২১ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ১৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

গাজীপুরের টঙ্গীতে অনুষ্ঠিত বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বে এ পর্যন্ত ৫ মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে। ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বের মিডিয়া সমন্বয়ক মোহাম্মদ সায়েম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এ পর্যন্ত বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বে পাঁচজন মুসল্লির মৃত্যু হয়েছে।

মৃতরা হলেন- আব্দুল জব্বারের ছেলে আব্দুল হান্নান (৪৫), রাজধানীর গুলিস্তানের বঙ্গবাজার এলাকার ব্যবসায়ী বোরহান (৪৮), গাইবান্ধার আব্দুল হামিদ মণ্ডল (৫৫), অপরজন ঢাকার সাভারের বাসিন্দা আব্দুল আলীমের ছেলে মফিজুল ইসলাম। এর আগে বৃহস্পতিবার রাত ৩টায় বরগুনার আব্দুল আলীর ছেলে মফিজুল ইসলামের (৭৫) মৃত্যু হয়।

মোহাম্মদ সায়েম বলেন, শুক্রবার এশার নামাজের সময় জিকির করছিলেন ইজতেমায় যোগ দিতে আসা ঢাকার কদমতলী থানার আব্দুল হান্নান, হঠাৎ অচেতন হয়ে মারা যান তিনি। এরপর রাত ১১টার সময় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান গুলিস্তানের বোরহান।

এর আগে, ইজতেমার প্রথম পর্বে ৭ মুসল্লির মৃত্যু হয়। তারা হলেন নরসিংদীর মনোহরদী থানার মাসিমপুর গ্রামের রহমতুল্লাহর ছেলে হাবিবুর রহমান হাবি, চট্টগ্রামের রাউজান থানা সদরের আবদুর রশিদের ছেলে আবদুর রাজ্জাক, খুলনার ডুমুরিয়া থানার মলমলিয়া গ্রামের মোবারক হোসেনের ছেলে মুফাজ্জল হোসেন খান, গাজীপুরের আবু তৈয়ব ওরফে আবু তালেব, সিলেটের নুরুল হক, মুন্সীগঞ্জের আক্কাস আলী এবং ঢাকার বংশালের কাজী আলাউদ্দিন রোড এলাকার বাসিন্দা ছমির উদ্দিনের ছেলে আনিসুর রহমান।

নিউজ ট্যাগ: বিশ্ব ইজতেমা

আরও খবর

আজ সরস্বতী পূজা

বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩

শবে মেরাজ ১৯ ফেব্রুয়ারি

সোমবার ২৩ জানুয়ারী 20২৩




মেট্রোরেল

প্রথম দিনে পল্লবী স্টেশনে নেই যাত্রীর চাপ

প্রকাশিত:বুধবার ২৫ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মেট্রোরেলের পল্লবী স্টেশন বুধবার থেকে সচল হয়েছে। আজ থেকে এই স্টেশনে যাত্রী ওঠানামায় থামছে ট্রেন। এদিন সকাল সাড়ে ৮টায় শুরু হয়ে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত ট্রেন চলবে। তবে প্রথম দিনে স্টেশনে যাত্রীর তেমন চাপ লক্ষ্য করা যায়নি।

সকালে সরেজমিনে পল্লবী স্টেশন ঘুরে দেখা গেছে, ভিড় না থাকায় যারা মেট্রোরেলে চড়তে এসেছেন তারা খুব সহজেই টিকিট কেটে ট্রেনে চড়েছেন। যাত্রীদের ভাষ্য, মানুষের উচ্ছ্বাস আগারগাঁও স্টেশন চালু হওয়ার সময়ই ছিল। তাই পল্লবী স্টেশন ঘিরে তেমন ভিড় নেই।

যাত্রী ইমতিয়াজ আহমেদ বলেন, মেট্রোরেল প্রথম যেদিন চালু হয়, সেদিন চড়ার বা দেখার খুব আগ্রহ ছিল। ধীরে ধীরে এখন সেটা কমে গেছে। তাই হয়তো তেমন একটা যাত্রী দেখা যাচ্ছে না।’

আরেক যাত্রী আহমেদ ফারুক বলেন, প্রথমদিকে মানুষ আসতো মেট্রোরেলে ঘুরতে। আগারগাঁও বা উত্তরা স্টেশন চালু হওয়ার পর দর্শনার্থীর সংখ্যাই ছিল বেশি। আমরা এখন যারা চড়ছি তারা বেশির ভাগ অফিসগামী যাত্রী। দর্শনার্থীর সংখ্যা কম বলেই যাত্রীর চাপ কম।’

এ বিষয়ে পল্লবী স্টেশনের জেনারেল ম্যানেজার ইফতেখার হোসেন বলেন, জনগণের দাবি ছিল স্টেশনগুলো চালু করার জন্য। আমরা একে একে সবগুলো স্টেশনই চালু করব। আজ প্রথম দিন বিধায় যাত্রী কিছুটা কম, আশা করছি সামনের দিনে যাত্রীর সংখ্যা বাড়বে।’

উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত বাণিজ্যিকভাবে মেট্রোরেল চালু হয়েছে গত ২৯ ডিসেম্বর। এক মাসেরও কম সময়ের মধ্যে বুধবার চালু হলো পল্লবী স্টেশন। উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত মেট্রোরেলের স্টেশন আছে ৯টি। উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত ভাড়া ৬০ টাকা। মাঝখানে পল্লবীর ভাড়া ৩০ টাকা। অর্থাৎ উত্তরা বা আগারগাঁও যে কোনো গন্তব্য থেকে পল্লবী পর্যন্ত যাতায়াত করলে ভাড়া দিতে হবে ৩০ টাকা।

উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত দূরত্ব পৌনে ১২ কিলোমিটার। এ পথ পাড়ি দিতে মেট্রোরেলের সময় লাগছে ১০ মিনিটের মতো। আজ থেকে উত্তরা ও আগারগাঁওয়ের মধ্যবর্তী স্টেশন পল্লবী থেকে যাত্রী ওঠানামা করতে পারবে। তবে আগামী ২৬ মার্চের মধ্যে পর্যায়ক্রমে অন্যান্য স্টেশনে মেট্রোরেল থামানো হবে বলে জানিয়েছে মেট্রোরেল কর্তৃপক্ষ।

মেট্রোরেল নির্মাণ ও পরিচালনার দায়িত্বে আছে ঢাকা ম্যাস ট্রানজিট কোম্পানি লিমিটেড (ডিএমটিসিএল)। সংস্থাটির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, আজ থেকে মেট্রোরেলের চলাচলের সময়েও কিছু পরিবর্তন আসবে। সকাল ৮টায় স্টেশনের গেট খোলা হবে। তখন যাত্রীরা ভেতরে প্রবেশ করে টিকিট কাটবেন। এরপর ট্রেন ছাড়া হবে সকাল সাড়ে আটটায়। শুরু থেকে সকাল ৮টায় গেট খোলার সঙ্গে সঙ্গেই ট্রেন চলাচল করে আসছে। এ ছাড়া কাল থেকে মেট্রোরেলের চলাচল বন্ধ হবে দুপুর ১২টার পরিবর্তে সাড়ে ১২টায়।

নিউজ ট্যাগ: মেট্রোরেল

আরও খবর

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ৭০

শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩

শুক্রবার রাজধানীর যেসব মার্কেট বন্ধ

শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩




২০০ থেকে ১৫০০ টাকায় পাওয়া যাবে বিপিএলের টিকিট

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৩ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ৩৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

শুক্রবার শুরু হচ্ছে বিপিএলের নবম মৌসুম। আর আজ টুর্নামেন্টের টিকিটের দাম ঘোষণা করা হয়েছে। টিকিটের সর্বনিম্ন দাম ২০০ টাকা এবং সর্বোচ্চ ১৫০০ টাকা।

মূলত ঢাকা পর্বের প্রথম রাউন্ডের টিকিটের দাম বলা হয়েছে। যেখানে গ্র্যান্ড স্ট্যান্ডের টিকিটের দাম ১৫০০ টাকা। দামের দিক থেকে গ্র্যান্ড স্ট্যান্ডের পরেই রয়েছে ভিআইপি স্ট্যান্ড। ভিআইপি স্ট্যান্ডের টিকিট পাওয়া যাবে ১০০০ টাকায়। ক্লাব হাউজের টিকিট মিলবে ৫০০ টাকায়। সাউথ স্ট্যান্ড ও ইস্টার্ন স্ট্যান্ডের টিকিটের দাম ৩০০ টাকা। ইস্টার্ন স্ট্যান্ডের টিকিট পাওয়া যাবে ২০০ টাকায়।

মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়াম এবং শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামের ১ নম্বর গেটে রয়েছে টিকিট কাউন্টার। সকাল সাড়ে ৯টা থেকে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা পর্যন্ত টিকিট কাউন্টার, বুথ খোলা থাকবে। ম্যাচের দিন এবং ম্যাচের আগের দিন পাওয়া যাবে টিকিট।

বিপিএলের এবারের মৌসুমের উদ্বোধনী ম্যাচে মাঠে মুখোমুখি হবে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স-সিলেট স্ট্রাইকার্স। শুক্রবার বেলা আড়াইটায় মাঠে গড়াবে ম্যাচটি। দিনের অপর ম্যাচে সন্ধ্যা ৭টা ১৫ তে খেলবে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ও রংপুর রাইডার্স।

 


আরও খবর



মেট্রোরেলে চড়ার কার্ড পাবেন যেভাবে

প্রকাশিত:বুধবার ২৮ ডিসেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৬ জানুয়ারী ২০২৩ | ৩১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বহুল প্রতীক্ষিত ঢাকার প্রথম মেট্রোরেলের উদ্বোধন কাল। তবে সাধারণ যাত্রীরা এই রেলে চড়তে পারবেন পরশু থেকে। ঢাকা ম্যাস ট্রানজিট কোম্পানি লিমিটেড (ডিএমটিসিএল) জানিয়েছে, শুরুতে উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত চলবে মেট্রোরেল। পৌনে ১২ কিলোমিটারের এই পথ পাড়ি দিতে মেট্রোরেলের সময় লাগবে ১০ মিনিট ১০ সেকেন্ড।

শুরুতে মেট্রোরেল চলবে দিনে চার ঘণ্টা। সকাল ৮ থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত। উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত চলার সময় ট্রেন মাঝপথে কোথাও থামবে না। শুরুতে উত্তরা ও আগারগাঁও স্টেশন থেকে টিকিট (কার্ড) কাটা যাবে। এই পথের ভাড়া ৬০ টাকা।

প্রথম দিকে স্টেশনে দুই ধরনের কার্ড পাওয়া যাবে। স্থায়ী ও এক যাত্রার (সিঙ্গেল জার্নি) কার্ড। শুরুতে মেট্রোরেল স্টেশন থেকেই এই কার্ড কিনতে হবে। পরে পর্যায়ক্রমে স্টেশনের বাইরে কার্ড বিক্রির জন্য কিছু প্রতিষ্ঠান নিয়োগের উদ্যোগ নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। ১০ বছর মেয়াদি স্থায়ী কার্ড কিনতে হবে ২০০ টাকা দিয়ে। এই কার্ড দিয়ে যাতায়াতের জন্য প্রয়োজনমতো টাকা রিচার্জ করা যাবে।

স্থায়ী কার্ড পেতে নিবন্ধন করতে হবে। আগামীকাল ডিএমটিসিএলের ওয়েবসাইটে নিবন্ধনের লিংক দেওয়া হবে। এদিন থেকে নিবন্ধন করা যাবে। নিবন্ধন করতে নিজের নাম, মাতা-পিতার নাম, জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) বা পাসপোর্ট নম্বর, মোবাইর নম্বর, ই-মেইল আইডি লাগবে।

এক যাত্রার (সিঙ্গেল জার্নি) কার্ডের জন্য নিবন্ধনের প্রয়োজন হবে না। স্টেশন থেকে এই কার্ড কিনে যাত্রা করা যাবে। ট্রেন থেকে নামার সময় কার্ড রেখে  দেওয়া হবে।

স্টেশনের টিকিট অফিস মেশিন (টিওএম) থেকে বিক্রয়কর্মীর সহায়তায় কার্ড  কেনা যাবে। এ ছাড়া ভেন্ডিং মেশিন থেকে যাত্রীরা নিজেরাই স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে কার্ড সংগ্রহ করতে পারবেন। সরকার মেট্রোরেলের সর্বনিন্ম ভাড়া নির্ধারণ করেছে ২০ টাকা। এরপর প্রতি দুই স্টেশন পর ১০ টাকা ভাড়া যোগ হবে।


আরও খবর



নোটিফিকেশন থেকেই ব্লক করা যাবে হোয়াটসঅ্যাপে

প্রকাশিত:সোমবার ২৩ জানুয়ারী 20২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ২৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

অপরিচিত মেসেজের ভিড়ে পরিচিতদের মেসেজ অনেক সময় হারিয়ে যায়। এজন্য নাম্বার ব্লক করার সুবিধা থাকলেও এবার নতুন ফিচার নিয়ে আসছে হোয়াটসঅ্যাপ। মেটার মালিকানাধীন এই মেসেজিং অ্যাপ একটি নতুন শর্টকাট চালু করার জন্য কাজ করছে। যার সুবাদে নোটিফিকেশন বার থেকেই কাউকে সহজেই ব্লক করা যাবে।

হোয়াটসঅ্যাপের ফিচার ট্র্যাকার ওয়েবেটাইনফো জানিয়েছে, হোয়াটসঅ্যাপ একটি নতুন ফিচার নিয়ে কাজ করছে। যার মাধ্যমে ব্যবহারকারীরা চ্যাট মেসেজ নোটিফিকেশন থেকে সরাসরি কাউকে ব্লক করতে সক্ষম হবেন। তবে সবসময় কিন্তু এই কাজ করা যাবে না।

জানা গেছে, ব্যবহারকারীরা যখন কোনো অপরিচিত নম্বর থেকে মেসেজ রিসিভ করবেন তখনই কেবলমাত্র এই শর্টকাট কাজে লাগিয়ে কাউকে ব্লক করা যাবে। তবে পরিচিত কোন নাম্বার ব্লক করার ক্ষেত্রে এই শর্টকাট প্রযোজ্য হবে না। এর আগে বছর শুরুতেই নতুন ফিচারের ঘোষণা দিয়েছিল হোয়াটসঅ্যাপ। এতদিন হোয়াটসঅ্যাপে-এ ৩টি চ্যাট পিন টু টপ করা যেত। এখন থেকে ৩টির পরিবর্তে ৫টি চ্যাট পিন টু টপ করা যাবে। 

ওয়াবেটাইনফো জানিয়েছে, বিভিন্ন চ্যাট, মেসেজের ভিড়ে অনেক জরুরি চ্যাট হারিয়ে যায়। প্রয়োজনের সময় সেগুলো দ্রুত খুঁজে পাওয়া কঠিন হয়। সেই সমস্যা দূর করার জন্য আসছে এই নতুন ফিচার। এই ফিচারের সাহায্যে সহজেই প্রয়োজনীয় চ্যাটকে খুঁজে পাওয়া যাবে। সেই কারণেই ৩টির পরিবর্তে বদলে এখন থেকে ৫টি জরুরি চ্যাট পিন টু টপ করা যাবে।

নিউজ ট্যাগ: হোয়াটসঅ্যাপ

আরও খবর



মাদকের তালিকায় নাম এলেই সে দোষী হয় না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ১৫ জানুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ জানুয়ারী ২০২৩ | ৩৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

কক্সবাজারের মাদক কারবারিদের নিয়ে সদ্য প্রকাশিত তালিকা যাচাই-বাছাই করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান।

তিনি বলেন, আমাদের বিভিন্ন সেক্টর থেকে আমরা অনেক ইনফরমেশন পাই। তা যাচাই-বাছাই করে ব্যবস্থা নেওয়া হয়। যে তালিকা এখন পাওয়া গেছে তা নিয়েও যাচাই-বাছাই চলছে। কেউ তালিকায় নাম এলো বলে দোষী হয়ে যায়নি। সব বিষয় তদন্ত করে চূড়ান্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

রোববার বেলা ১১টায় জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির  বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এসব কথা বলেন।

বৈঠকে বিগত ২৫তম ভার কার্যবিবরণী নিশ্চিতকরণ, সীমান্তবর্তী এলাকায় মাদক চোরাচালান রোধকল্পে বিস্তারিত আলোচনা ও সিদ্ধান্ত গ্রহণ, সেন্টমার্টিন দ্বীপসহ এ অঞ্চলের সীমান্ত এলাকায় বিজিবি এবং কোস্টগার্ডের কার্যক্রমের ওপর বিস্তারিত আলোচনাসহ বিবিধ বিষয় এজেন্ডায় রাখা হয়।

এ বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, আমি এ কমিটির একজন সদস্য মাত্র। বৈঠকের সিদ্ধান্তসমূহ কমিটির সভাপতি উপস্থাপন করবেন। বৈঠক এখনও চলমান।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি বেনজির আহমদ এমপির সভাপতিত্বে চলমান বৈঠকে কমিটির সদস্য সংসদ সদস্য মো. আফছারুল আমীন, মো. হাবিবর রহমান, সামছুল আলম দুদু, কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, পীর ফজলুর রহমান, নূর মোহাম্মদ, সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ ও বেগম রুমানা আলী, কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ শাহীন ইমরানসহ শৃংখলা বাহিনীর বিভিন্ন বিভাগের প্রধান ও প্রতিনিধিগণ অংশ নিয়েছেন।  সকাল সাড়ে ১০টার দিকে মন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্টরা সভাস্থলে আসেন।

এর আগে শুক্রবার বিকালে কক্সবাজার আসেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। শনিবার দুপুরে তিনি শাহপরীর দ্বীপ সংলগ্ন সীমান্ত এলাকা পরিদর্শন করেন। একইদিন (শুক্রবার) বেলা ১১টা থেকে সাড়ে ১২টা পর্যন্ত বিজিবির মহাপরিচালক মেজর জেনারেল সাকিল আহমেদ এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্যরা ৩৪ বিজিবির অধীনস্থ বান্দরবানের ঘুমধুম সীমান্তের ফ্রেন্ডশিপ লালব্রীজ এলাকা পরিদর্শন করেন।

পৃথক পরিদর্শন শেষে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির বৈঠক অনুষ্ঠিত হচ্ছে আজ রোববার। বৈঠক শেষে সন্ধ্যায় কক্সবাজার থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে রওয়ানা হবেন কমিটির সদস্যরা, এমনটি জানিয়েছেন কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) মো. আবু সুফিয়ান।


আরও খবর