শিরোনাম

ইনস্টাগ্রামে খুনসুটিতে মেতেছেন যশ-পত্নী

প্রকাশিত:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৭৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

অবসর কাটাচ্ছেন নুসরত জাহান। লাইট-ক্যামেরা-অ্যাকশন-এর ব্যস্ত রুটিন থেকে কিছুটা সময় তুলে রেখেছেন নিজের জন্য। সঙ্গী দুই কাছের মানুষ। স্বামী যশ দাশগুপ্ত এবং বোনুয়া মিমি চক্রবর্তী।

ঘরোয়া পার্টি বা আড্ডার আসর নয়। বৈঠকখানার টেলিভিশনে যশ-মিমির নাচের ভিডিয়ো। দর্শকের আসনে নুসরত। সেই ভিডিয়োর কয়েক মুহূর্ত ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতেও পোস্ট করেছেন যশ-পত্নী। লিখেছেন, উইকেন্ডিং #ড্যাডি #মাসি। তবে কি নুসরতের অবসর যাপনের সঙ্গী ঈশান? মায়ের সঙ্গে বসে পর্দায় বাবা আর মাসিকে দেখে সময় কাটছে একরত্তির? সাংসদ-অভিনেত্রীর ইনস্টাগ্রাম স্টোরি তেমনই ইঙ্গিত দিচ্ছে। যদিও ভিডিয়োয় ঈশান অনুপস্থিত।

শুক্রবার নুসরতের একটি ইনস্টাগ্রাম পোস্ট নিয়ে শুরু হয়েছিল জল্পনা। তিনি লিখেছিলেন, যে ঘরে শান্তি নেই, সেই ঘর দুনিয়ার সবচেয়ে খারাপ জেলখানা! যে কোনও মানুষের জন্যই সবচেয়ে ভাল জেলখানা সেখানেই, যেখানে ভালবাসা আছে। কেউ সেই ঘর ছাড়তে চায় না। নুসরতের এই পোস্টের কিছুক্ষণের মধ্যেই ভেসে ওঠে যশের স্টোরি  কেন জেলখানায় বন্দি হয়ে থাকছ? খাঁচার দরজা তো খোলাই আছে!

অনেকেই ভেবেছিলেন, যশরতবিপন্ন। নায়ক-নায়িকার সম্পর্কের বাঁধন আলগা হয়েছে। আবার অনুরাগীদের একাংশের পাল্টা দাবি, ইনস্টাগ্রামে নিছক খুনসুটিতে মেতেছেন নায়ক-নায়িকা। এ প্রসঙ্গে যদিও মুখ খোলেননি তাঁরা। তবে কোনও শব্দ খরচ না করেই নিজের কথা জানালেন নায়িকা। এই পোস্টের মাধ্যমে বুঝিয়ে দিলেন, ঈশানের বাবার সঙ্গে তাঁর সম্পর্কে প্রেমের কমতি নেই। যশরত আছে যশরত-এই।

 

 


আরও খবর



নাসিক নির্বাচনে ভোটগ্রহণ আগামীকাল

প্রকাশিত:শনিবার ১৫ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ২৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

আগামীকাল রবিবার (১৬ জানুয়ারি) উৎসবমুখর পরিবেশে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন (নাসিক) নির্বাচনে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। সকাল ৮টা থেকে শুরু হয়ে বিরতিহীনভাবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ করা হবে।

ইতোমধ্যে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের সকল প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এই নির্বাচনে ইলেক্ট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) ভোটগ্রহণ করা হবে। এ জন্য নারায়ণগঞ্জে ২ হাজার ৯১২টি ইভিএম মেশিন আনা হয়েছে। প্রতিটি কেন্দ্রে প্রয়োজনের তুলনায় দেড়গুণ ইভিএম রাখা হবে। আজ শনিবার (১৫ জানুয়ারি) সকাল থেকে ভোটকেন্দ্রগুলোতে নির্বাচনী সামগ্রী পৌছানো শুরু হয়েছে।

গতকাল শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) রাত ১২টা থেকে নির্বাচনী প্রচার প্রচারণা শেষ হয়েছে। বহিরাগতদের নির্বাচনী এলাকা ত্যাগ করতে কমিশনের পক্ষ থেকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। শুক্রবার রাত থেকে এলাকায় মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

নির্বাচনে সহিংসতা রোধে ১৪ জন জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। পেনাল কোডের অধীনে তারা মামলা নিয়ে সংক্ষিপ্ত বিচার কাজ পরিচালনা করতে পারবেন।

গত ৩০ নভেম্বর এই সিটি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে কমিশন। নির্বাচনে মেয়র পদে ৭ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন, এরা হলেন- বাংলদেশ আওয়ামী লীগের সেলিনা হায়াত আইভী (নৌকা), খেলাফত মজলিসের এবিএম সিরাজুল মামুন (দেয়ালঘড়ি), স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে বিএনপির বহিস্কৃত নেতা তৈমূর আলম খন্দকার (হাতি), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মাওলানা মো. মাছুম বিল্লাহ (হাতপাখা), বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের মো. জসীম উদ্দিন (বটগাছ), বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির মো. রাশেদ ফেরদৌস (হাতঘড়ি) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী কামরুল ইসলাম (ঘোড়া)

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনে ২৭টি ওয়ার্ডের ১৯২টি কেন্দ্রের ১ হাজার ৩৩৩ ভোটকক্ষে ৫ লাখ ১৭ হাজার ৩৬১ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগের সুযোগ পাবেন। ২৭টি সাধারণ ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদে ১৪৮ জন ও সংরক্ষিত ৯টি ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদে রয়েছেন ৩৪ জন প্রার্থী।

নাসিক নির্বাচনকে ঘিরে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। এ নির্বাচনে ১৯২টি ভোট কেন্দ্রে ও কেন্দ্রের বাইরে নিরাপত্তা নিশ্চিতে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর ৫ হাজারের বেশি সদস্য নিয়োজিত থাকবেন। প্রতি কেন্দ্রে থাকবেন আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর ২৬ সদস্য।

সিটি নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা মাহফুজা আক্তার জানান, নারায়ণগঞ্জে আলাদাভাবে ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্র নেই, সবগুলো কেন্দ্রকেই বিশেষ বিবেচনায় রেখে গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে দেখা হচ্ছে। ১৯২টি ভোট কেন্দ্রের প্রতিটিতে একজন এসআইয়ের নেতৃতে থাকবেন পাঁচজন করে পুলিশ সদস্য। এছাড়াও আটজন পুরুষ ও চারজন নারী আনসার সদস্য নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকবেন।

তিনি বলেন, নাসিক নির্বাচনে পুলিশের ২৭টি ইউনিট স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে থাকবে। এছাড়াও পুলিশের মোবাইল টিম থাকবে ৬৪টি, প্রতি টিমে সদস্য থাকবেন পাঁচজন। বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) ১৪ প্লাটুন সদস্য থাকবে। আরও অতিরিক্ত ৬ প্লাটুনের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক চাহিদা পাঠিয়েছেন বলেও জানান রিটার্নিং কর্মকর্তা।

নাসিক নির্বাচনে র‌্যাবের স্ট্রাইকিং ফোর্স থাকবে ৩টি, চেকপোস্ট থাকবে ৬টি, টহল টিম থাকবে ৭টি ও স্ট্যাটিক টিম থাকবে ২টি, জানান তিনি।

এদিকে নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করতে ৯টি সংস্থার ৪২ পর্যবেক্ষককে অনুমতি দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। সংস্থাগুলো হলো- জাতীয় নির্বাচন পর্যবেক্ষণ পরিষদ (জানিপপ), সার্ক মানবাধিক ফাউন্ডেশন, আইন সহায়তা কেন্দ্র (আসক) ফাউন্ডেশন, সমাজ উন্নয়ন প্রয়াস, তৃণমূল উন্নয়ন সংস্থা, তালতলা যুব উন্নয়ন সংগঠন, রিহাফ ফাউন্ডেশন, বিবি আছিয়া ফাউন্ডেশন এবং মানবাধিকার ও সমাজ উন্নয়ন সংস্থা-মওসুস। তবে, পর্যবেক্ষক হিসেবে কাজ করতে নির্বাচন পর্যবেক্ষণ নীতিমালা মানার পাশাপাশি এসব সংস্থাকে ভোট শেষ হওয়ার এক সপ্তাহের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের শর্ত দিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

নিউজ ট্যাগ: নারায়ণগঞ্জ

আরও খবর



দায়িত্বে অবহেলা, ঝালকাঠির সিভিল সার্জন ওএসডি

প্রকাশিত:সোমবার ০৩ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৬৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সুগন্ধা নদীতে ঢাকা-বরগুনা রুটের অভিযান-১০ লঞ্চে অগ্নিকাণ্ডে শতাধিক যাত্রী হতাহতের সময় য়িত্বে অবহেলার অভিযোগে ঝালকাঠির সিভিল সার্জন ডা. রতন কুমার ঢালীকে ওএসডি (অফিসার অন স্পেশাল ডিউটি) করা হয়েছে। স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে বিশেষ সূত্রে এ তথ্য নিশ্চিত হওয়া গেছে।

তিনি ঢাকায় যোগদানের জন্য মঙ্গলবার (৪ জানুয়ারি) ঝালকাঠি ত্যাগ করবেন বলে জানিয়েছেন জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ের জুনিয়র স্বাস্থ্য শিক্ষা কর্মকর্তা গৌতম কুমার দাস।

তবে ডা. রতন কুমার ঢালীকে ওএসডির কারণ এড়িয়ে যান তিনি। এছাড়া ঘটনার দিন সিভিল সার্জন কোথায় ছিলেন সে প্রশ্নের জবাবও দেননি গৌতম কুমার দাস। জানান, ৫ জানুয়ারি রতন কুমার ঢালী স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে যোগ দেবেন।

এদিকে স্বাস্থ্য বিভাগের একটি সূত্র জানিয়েছেন, লঞ্চ দুর্ঘটনার পর বরিশাল বিভাগীয় কমিশনার সাইফুল হাসান বাদল ঝালকাঠির সিভিল সার্জন ডা. রতন কুমার ঢালীকে তলব করে পাননি। 

উল্লেখ্য, গত ২৪ ডিসেম্বর রাত সারে ৩টা থেকে পরদিন সকাল ৭টা পর্যন্ত লঞ্চে দগ্ধ ৭০ জন যাত্রীকে ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। তবে, ঝালকাঠিতে বার্ন ইউনিট না থাকায় সদর হাসপাতালে ১৫ জন রেখে বাকি সব রোগীকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে পাঠিয়ে দেওয়া হয়।

লঞ্চে অগ্নিকাণ্ডের সময় সিভিল সার্জন ডা. রতন কুমার ঢালী ঝালকাঠিতে ছিলেন না। স্ত্রীর কর্মস্থল পিরোজপুরে অবস্থান করছিলেন বলে তখন জানিয়েছিলেন ঝালকাঠি সিভিল সার্জন কার্যালয়ের ইপিআই সুপারিনটেনডেন্ট জিকে মতিয়র রহমান সিকদার। পিরোজপুরে অবস্থানের সময় তিনি ছুটি নেননি বলেও জানান তার কার্যালয়ের একটি সূত্র।

অপরদিকে সিভিল সার্জন ডা. রতন কুমার ঢালীকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে ওএসডির আদেশের স্মারক নম্বর চাইলে তা দিতে অপারগতা প্রকাশ করেন জিকে মতিয়র রহমান।

নিউজ ট্যাগ: এমভি অভিযান-১০

আরও খবর



জাপানে মার্কিন ঘাঁটিগুলোতে ব্যাপক কড়াকড়ি আরোপ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

জাপানের ওকিনাওয়া দ্বীপসহ যেসব ঘাঁটিতে মার্কিন সেনা মোতায়েন রয়েছে, সেসব ঘাঁটিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ মোকাবিলার জন্য অত্যন্ত কড়া বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। এসব ঘাঁটিতে করোনাভাইরাসের মহামারি দ্রুতগতিতে ছড়িয়ে পড়ার প্রেক্ষাপটে এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়। খবর জাপান টাইমসের।

এ ছাড়া গত ৩০ নভেম্বর বিদেশিদের প্রবেশে জারি করা নিষেধাজ্ঞা আগামী ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বলবত থাকবে। জাপানে মোতায়েন মার্কিন সেনাবাহিনী এবং জাপান সরকারের যৌথ বিবৃতিতে এই কড়াকড়ি আরোপের বিষয়টি জানানো হয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়, দুই সপ্তাহের জন্য মার্কিন ঘাঁটিগুলো থেকে একান্ত জরুরি প্রয়োজন ছাড়া সেনাসদস্যরা বাইরে যেতে পারবেন না। এ ছাড়া প্রতিটি সেনাসদস্যকে বাধ্যতামূলকভাবে মাস্ক পরতে হবে।

জাপানের ওকিনাওয়া দ্বীপে একদিনে দেড় হাজার জনের করোনা সংক্রমণ শনাক্ত হয়। গত শনিবার ওকিনাওয়ায় সর্বোচ্চ ১ হাজার ৭৯৫ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছিল। গত ডিসেম্বর মাস থেকে জাপানে অবস্থিত মার্কিন ঘাঁটিগুলোতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে শুরু করে।

জাপানের প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কাশিদা মঙ্গলবার নতুন করে আরও বিধিনিষেধ আরোপ করবেন বলে দেশটির গণমাধ্যম জানিয়েছেন।


আরও খবর

আবুধাবিতে ড্রোন হামলায় তিনজন নিহত

সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২




সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে

প্রকাশিত:রবিবার ১৯ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী ২০২২ | ৭২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

দেশে তাপমাত্রা ক্রমান্বয়ে কমছে। উত্তর অথবা উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের সীমান্তবর্তী এলাকাগুলোতে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে। পরবর্তী দুদিনে রাতের তাপমাত্রা আরও কমতে পারে।

আজ রোববার আরও কমে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৮ থেকে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নামতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

এ ছাড়া সারা দেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা সামান্য কমতে পারে। আবহাওয়াবিদ তরিফুল নেওয়াজ কবির জানান, রোববার দিবাগত রাতে তাপমাত্রা অনেক কমে যাবে। মঙ্গলবার পর্যন্ত এই অবস্থা বিরাজ করতে পারে। বুধবার থেকে দিনের তাপমাত্রা ফের কিছুটা বাড়তে পারে।

তিনি জানান, বড় কোনো এলাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে গেলে তাকে তীব্র শৈত্যপ্রবাহ হিসেবে ধরা হয়। আর তাপমাত্রা ৬ থেকে ৮ ডিগ্রির মধ্যে থাকলে মাঝারি এবং তাপমাত্রা ৮ থেকে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে থাকলে তাকে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বলা হয়।

শনিবার পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। এ ছাড়া ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৬ দশমিক ১, ময়মনসিংহে ১২ দশমিক ৬, চট্টগ্রামে ১৬, সিলেটে ১৪ দশমিক ৪, রাজশাহীতে ১১ দশমিক ৪, রংপুরে ১২ দশমিক ৬, খুলনায় ১৩ দশমিক ৩ ও বরিশালে ১৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে।

তিনি জানান, ডিসেম্বরের শেষের দিকে দেশের উত্তর, উত্তর-পূর্বাঞ্চল ও মধ্যাঞ্চলে এক থেকে দুটি মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে। এ ছাড়া এই মাসে দেশের নদী অববাহিকায় ভোর থেকে সকাল পর্যন্ত হালকা বা মাঝারি ধরনের কুয়াশায় পড়তে পারে।

উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বাড়তি অংশ পশ্চিমবঙ্গ ও এর কাছাকাছি এলাকা পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগর এবং এর কাছাকাছি নিরক্ষীয় ভারত মহাসাগর এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে।

নিউজ ট্যাগ: শৈত্যপ্রবাহ

আরও খবর



করোনায় একজনের মৃত্যু, শনাক্ত ৩৯৭

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১৬ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে একজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ২৮ হাজার ৬২ জনে। মৃত্যুহার ১ দশমিক ৭৭ শতাংশ। একই সময়ে আক্রান্ত হিসেবে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৩৯৭ জন। এ নিয়ে দেশে এখন পর্যন্ত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৫ লাখ ৮৪ হাজার ২৩ জনে।

মঙ্গলবার (২৮ ডিসেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের করোনা পরিস্থিতি সংক্রান্ত নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে সরকারি-বেসরকারি ৮৫১টি ল্যাবরেটরিতে ১৮ হাজার ৯৩৮টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এ নিয়ে মোট নমুনা পরীক্ষা দাঁড়ালো এক কোটি ১৪ লাখ ২৯ হাজার ২৩৪টি।

২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষায় শনাক্তের হার ২ দশমিক ১০ শতাংশ। গত বছরের ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর ১৮ মার্চ প্রথম রোগীর মৃত্যু হয়। এখন (২৮ ডিসেম্বর) পর্যন্ত নতুন রোগী শনাক্তের হার ১৩ দশমিক শূন্য ৮৬ শতাংশ।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ২৯৪ জন। এ নিয়ে সুস্থ রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়ে দাঁড়িয়েছে ১৫ লাখ ৪৮ হাজার ৪৪ জন। সুস্থতার হার ৯৭ দশমিক ৭৩ শতাংশ। ২৪ ঘণ্টায় মৃত একজনই নারী। তিনি সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মার যান। তার বাড়ি ঢাকা বিভাগে। বয়স ষাটের বেশি।

করোনায় দেশে মোট মৃত ২৮ হাজার ৬২ জনের মধ্যে পুরুষ ১৭ হাজার ৯৫১ জন ও নারী ১০ হাজার ১১১ জন।

নিউজ ট্যাগ: করোনাভাইরাস

আরও খবর

দেশে মোট ৫৫ জনের দেহে ওমিক্রন শনাক্ত

সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২