Logo
শিরোনাম

জাতির সমস্ত অর্জন এসেছে আওয়ামী লীগের হাত ধরে: তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৩ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৪৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, দীর্ঘ ৭৩ বছরের পথচলায় আওয়ামী লীগের হাত ধরেই বাঙালি জাতির সমস্ত অর্জন এসেছে।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আজ বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর ধানমণ্ডিতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে বাংলাদেশের স্বাধীনতা অর্জন (হয়েছে)। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে, বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে, বাংলাদেশ খাদ্য ঘাটতির দেশ থেকে খাদ্যে উদ্বৃত্তের দেশে, (এবং) স্বল্পোন্নত থেকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হয়েছে। অর্থাৎ বাঙালি জাতির সমস্ত অর্জন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বেই হয়েছে।

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী আরো্ বলেন, স্বাধীনতার পর আরও একটি বড় অর্জন হচ্ছেবাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে, আওয়ামী লীগ সরকারের নেতৃত্বে বিশ্ববেনিয়াদের বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে পদ্মা সেতু নির্মাণ হয়েছে। তাই, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ইতিহাস প্রকৃতপক্ষে বাঙালি জাতিরই ইতিহাস। বাঙালি জাতির সমস্ত অর্জনের সঙ্গে জড়িয়ে আছে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ।

আগামী দিনের চ্যালেঞ্জ সম্পর্কে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, আমাদের সামনে চ্যালেঞ্জ হচ্ছেএখনও স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তি বাংলাদেশে আস্ফালন করে এবং তাদের প্রধান পৃষ্ঠপোষক হচ্ছে বিএনপি। বিএনপি এখনও জামায়াতে ইসলামীকে নিয়ে রাজনীতি করে এবং তারা এখনও ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। বাংলাদেশের উন্নয়ন-অগ্রগতি, স্বাধীনতার বিরুদ্ধে তারা এখনও ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সমস্ত ষড়যন্ত্রকে পরাস্ত করে আমরা বাংলাদেশকে উন্নতি সমৃদ্ধির দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছি।

অতীতে যেমন সমস্ত ষড়যন্ত্রকে ছিন্ন করে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে বিশেষ করে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে গেছে, আমরা ইনশাআল্লাহ ২০৪১ সাল নাগাদ সমস্ত ষড়যন্ত্রের জাল ছিন্ন করে আওয়ামী লীগের নেতৃত্বেই বাংলাদেশকে উন্নত সমৃদ্ধ রাষ্ট্রে পরিণত করব বলে প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ।


আরও খবর



শহরের নতুন গোয়েন্দা নিশো

প্রকাশিত:বুধবার ২২ জুন 20২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৪৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মডেলরা অভিনয় করতে জানে না এই এক কথায় পাল্টে যায় একজন মডেলের জীবন। জেদের বশে উঠেপড়ে লাগেন অভিনয়ের পেছনে। জেদ ছিল অভিনেতা তিনি হয়েই দেখাবেন। যেই কথা সেই কাজ। আফরান নিশো এখন কতটা অভিনেতা হয়ে উঠেছেন, তা তো তার নাটক আর ইউটিউবে থাকা নাটকগুলোর নিচে মন্তব্য দেখলেই বোঝা যায়। পলকে পলকে নিশো দিন দিন নিজেকে ছাড়িয়ে যাচ্ছে। বিচিত্র চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকদের হৃদয়ে পাকাপোক্ত জায়গা করে নিচ্ছেন ছোট পর্দার এই দাপুটে অভিনেতা। এবার প্রথমবারের মতো গোয়েন্দা চরিত্রে অভিনয় করলেন নিশো। নির্মাতা তানিম নূরের পরিচালনায় কাইজার ওয়েব সিরিজের নাম ভূমিকায় দেখা যাবে নিশোকে। আগামী ৮ জুলাই হইচইয়ে মুক্তি পাবে এটি।

নিজের চরিত্র নিয়ে নিশো বলেন, কাইজার একজন জিনিয়াস ডিটেকটিভ, তার অনেক রকম সমস্যা আছে। কিন্তু জীবনের গভীরে সেও একজন মানুষ। চরিত্রটি আমাকে আকর্ষণ করেছে আর আমি কাজটা আনন্দ নিয়ে করেছি। খুব শিগগির কাইজারের ট্রেইলার মুক্তি পাবে। কাইজার হিসেবে দর্শক আমাকে কীভাবে নেন, তা জানার অপেক্ষায় রইলাম। এডিসি কাইজার চৌধুরী একজন হোমিসাইড ডিটেকটিভ। ব্যক্তিগত জীবনে বিপর্যস্ত কাইজার একজন ভিডিও গেম অ্যাডিক্ট। বদমেজাজি এই ডিটেকটিভ রক্ত ভয় পায় কিন্তু ডিটেকটিভ হিসেবে প্রথম শ্রেণির বলে জানান নির্মাতা।

কাইজার চরিত্রের স্রষ্টা তানিম নূর। এই চরিত্র নিয়ে তার অনেক স্বপ্ন। তা স্মরণ করে এই পরিচালক বলেন, এটি আমার ড্রিম প্রজেক্ট। ছোটবেলা থেকে আমরা ফেলুদা, তিন গোয়েন্দা, ব্যোমকেশ বা শার্লক হোমস পড়ে বড় হয়েছি। চরিত্রগুলো কলকাতা বা বাইরের দেশের প্রেক্ষাপটে গড়ে উঠেছে। এদের নিয়ে বেশ কিছু কাজও হয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশের বা ঢাকার মৌলিক একটি গোয়েন্দা চরিত্র নিয়ে খুব বেশি কাজ হয়নি। আমার স্বপ্ন ছিল বাংলাদেশের একটি গোয়েন্দা চরিত্রের ফ্র্যাঞ্চাইজি তৈরি করার। ছোটবেলা থেকে পড়া গোয়েন্দা গল্পগুলোর প্রতি যে ভালোলাগা কাজ করত, সেখান থেকেই সিরিজটি নির্মাণ করেছি।

সিরিজটির বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেনমোস্তাফিজুর নূর ইমরান, আহমেদ রেজা রুবেল, নাদের চৌধুরী, রিকিতা নন্দিনী শিমু, শাহেদ আলী, শতাব্দী ওয়াদুদ, সুমন আনোয়ার, দীপান্বিতা মার্টিন, ইমতিয়াজ বর্ষণ, সৌম্য জ্যোতি, নাজিবা বাশার, শঙ্খ জামান, জিনাত সানু স্বাগতা, আহমেদ হাসান সানী, মোস্তাফিজ শাহীন, ঋদ্ধি প্রমুখ।

নিউজ ট্যাগ: আফরান নিশো

আরও খবর

২৭ বছরের সম্পর্কে ইতি টানলেন মীর!

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২

বড় পর্দায় বাম-কংগ্রেস সন্ত্রাস

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২




‘জুনেই রুশ সৈন্য নিহতের সংখ্যা ৪০ হাজার ছাড়াবে’

প্রকাশিত:সোমবার ১৩ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ৩০ জুন ২০২২ | ৫৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি দাবি করেছেন, জুন মাসেই রাশিয়ার নিহত সেনাদের সংখ্যা ৪০ হাজার ছাড়াবে। রবিবারের নিয়মিত রাতের ভাষণে জেলেনস্কি এ দাবি করেন। এসময় রাশিয়াকে প্রতিহত করতে পশ্চিমাদের কাছে আরও সমরাস্ত্র চেয়েছেন জেলেনস্কি।

জেলেনস্কি বলেন, তার দেশ ভয়াবহ দুঃখজনক পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। প্রতিদিন হামলা হচ্ছে, প্রতিদিনই বাড়ছে হতাহতের সংখ্যা। ইউক্রেনের ন্যাটোসহ পশ্চিমা ব্লকে ঘেঁষার চেষ্টা থামাতে চলতি বছরের ২৪ ফেব্রুয়ারি দেশটিতে বিশেষ সেনা অভিযান শুরু করেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।


আরও খবর



সীতাকুণ্ডে বিস্ফোরণে গাফিলতি পেলেই ব্যবস্থা: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:শুক্রবার ১০ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৫৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন, সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় কার গাফিলতি আছে, সেটি বের করতে উচ্চ পর্যায়ের দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। মামলাও হয়েছে। তদন্ত কমিটির তদন্তে যারা দোষী সাব্যস্ত হবে, যাদের গাফিলতি পাব, তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তারা যদি ইচ্ছাকৃত কিছু করে থাকে, অবশ্যই তারা সেই অনুযায়ী শাস্তি পাবে। তদন্তের আগে কে দোষী, কে নির্দোষ আমরা বলছি না। আমরা মনে করি, এটা তদন্তের পরই সবকিছু পাব।

শুক্রবার (১০ জুন) সকালে গাজীপুরের কালিয়াকৈরে একটি অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

কালিয়াকৈর উপজেলার সফিপুর আনসারভিডিপি একাডেমিতে নবনিযুক্ত ব্যাটালিয়ন আনসারের (২২তম ব্যাচ, পুরুষ) মৌলিক প্রশিক্ষণ সমাপনী কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান।

মন্ত্রী আরও বলেন, আগে ফায়ার সার্ভিস ঘণ্টা বাজিয়ে বাজিয়ে আগুন নেভার পর ঘটনাস্থলে যেত। পরবর্তী সময় বর্তমান সরকার প্রতিটি উপজেলায় একটি করে ফায়ার স্টেশন করেছে। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের প্রশিক্ষণ, দক্ষতা ও সময়োপযোগী যন্ত্রপাতি এনে দিয়েছেন। বসুন্ধরায় আগুন লেগেছিল, দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে দৃশ্য দেখা ছাড়া উপায় ছিল না। তখন ছয়তলার ওপর মই ছিল না, কিন্তু এখন সেটা ২২ তলায় পৌঁছায়।

নবীন ব্যাটালিয়ন আনসারদের কুচকাওয়াজের শুরুতেই প্রধান অতিথি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান একটি সুসজ্জিত খোলা জিপে প্যারেড পরিদর্শন করেন। পরে প্রশিক্ষণার্থীরা ছয় সারিতে মার্চ পাস্ট করে প্রধান অতিথিকে অভিবাদন জানান। ৪৪২ জন নবনিযুক্ত ব্যাটালিয়ন আনসার ছয় মাস মেয়াদি মৌলিক প্রশিক্ষণ গ্রহণ শেষে সমাপনী কুচকাওয়াজে অংশ নেন।

আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মো. আসাদুজ্জামান কামাল বলেন, বর্তমান সরকারের বিগত ১২ বছরের সময়কালে এ বাহিনীর সদস্যদের জন্য নতুন পোশাক প্রবর্তন, পারিবারিক রেশন প্রদান, সাহসিকা ও সেবামূলক কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ রাষ্ট্রীয় পদক প্রবর্তন, কর্মকর্তাদের জন্য দ্বিতীয়, তৃতীয় ও পঞ্চম গ্রেডে পদ সৃজন এবং মহাপরিচালকের পদটি প্রথম গ্রেডে উন্নিত করা হয়েছে। অন্যান্য পদের মানোন্নয়ন ও কর্মকর্তাদের বৈশ্বিক প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। উপজেলা প্রশিক্ষকদের উপজেলা আনসারভিডিপি কর্মকর্তা হিসেবে পদোন্নতি দেওয়া হয়েছে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিব মো. আখতার হোসেন ও বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মিজানুর রহমান শামীম অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। এ সময় বাহিনীর অতিরিক্ত মহাপরিচালক, কমান্ড্যান্ট, উপমহাপরিচালক (প্রশাসন), উপমহাপরিচালকসহ (অপারেশনস) সদর দপ্তর ও একাডেমির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথি কৃতী ও চৌকস প্রশিক্ষণার্থীদের মধ্যে পুরস্কার প্রদান করেন। এবার মৌলিক প্রশিক্ষণে সাগর আলী শ্রেষ্ঠ ড্রিল, শরিফুল ইসলাম শ্রেষ্ঠ ফায়ারার এবং মো. গুলজার আলী চৌকস প্রশিক্ষণার্থী হিসেবে প্রথম স্থান অধিকার করেন।


আরও খবর



মাদকাসক্ত বড়ভাইকে হত্যা করল ছোটভাই

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৩ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২ | ৪৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে মাদকাসক্ত বড়ভাইকে হত্যা করলো ছোটভাই। এ ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার রাতে মগটুলা ইউনিয়নের নওপাড়া গ্রাম।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, নওপাড়া গ্রামের নোমান মিয়ার মাদকাসক্ত পুত্র জারমান মিয়া (২৪) মাদকের টাকার জন্য নিজ ঘর থেকে জোর করে একটি ছাগল নিয়ে বিক্রি করতে চাইলে ছোট ভাই সিয়াম মিয়া (১৯) তাকে বাঁধা দেয়। এ নিয়ে দুই ভাইয়ের মধ্যে ধস্তাধস্তি হয়। এক পর্যায়ে ছোট ভাই সিয়াম ঘরে থাকা দা দিয়ে বড় ভাই জারমানকে আঘাত করে।

পরে পরিবারের লোকজন গুরুত্ব আহত জারমানকে চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। বুধবার নিহতের লাশ নিয়ে বাড়ি চলে আসলে পুলিশ খবর পেয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে।

ঈশ্বরগঞ্জ থানার ওসি মোস্তাছিনুর রহমান বলেন, হত্যার ঘটনায় নিহতের বাবা বাদী হয়ে পুত্র সিয়ামকে আসামি করে মামলা করেছেন। আসামি গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

নিউজ ট্যাগ: বড়ভাইকে হত্যা

আরও খবর



পাবনায় সাপের ছোবলে অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূর মৃত্যু

প্রকাশিত:রবিবার ১৯ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৪৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

পাবনার বেড়া উপজেলায় সাপের ছোবলে সুলতানা খাতুন (২৩) নামে এক অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। শনিবার বিকেল ৫টার দিকে উপজেলার চাকলা পূর্বপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। মৃত সুলতানা খাতুন ওই গ্রামের শাহানুর প্রামাণিকের স্ত্রী।

নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, সুলতানা গরুর গোয়ালে ঘাস দিতে গেলে বিষধর সাপ তার পায়ে কামড় দেয়। এ সময় তার চিৎকারে পরিবারের লোকজন প্রথমে তার পা বেঁধে স্থানীয় কবিরাজের কাছে নিয়ে যায়। কবিরাজ ঝাড়ফুঁক করার পরে তিনি বিষ নামাতে ব্যর্থ হন।

পরে তিনি অন্য কবিরাজের কাছে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। সন্ধ্যার দিকে বেড়া সওদাগরপাড়ায় আরেক সাপুড়ের কাছে নিয়ে গেলে তিনিও অনেকক্ষণ ঝাড়ফুঁক করেন। পরে ব্যর্থ হয়ে বলেন রোগী মারা গেছে।

একপর্যায়ে পরিবারের লোকজন রাত সাড়ে ৯টার দিকে বেড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক গৃহবধূকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহত সুলতানার চার বছর বয়সের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। তিনি দুই মাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন বলে জানান তার স্বজনরা।

এ বিষয়ে বেড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত মেডিকেল অফিসার ডা. রেজাউল হামিদ জানান, রোগীর পরিবার রোগীকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে এসেছিলেন। আমাদের কিছু করার ছিল না।


আরও খবর