Logo
শিরোনাম

কানাডায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশির মৃত্যু

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৮ মার্চ ২০২১ | ৮৬জন দেখেছেন
Share
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
তারা সবাই ইউনিভার্সিটি অব ম্যানিটোবায় পড়াশোনা করতেন। তিন বন্ধু উইনিপেগ থেকে প্রায় ১১৫ কিলোমিটার উত্তরে হেকলা অঞ্চল থেকে ফেরার

কানাডার ম্যানিটোবায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশি শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে আরবর্গ থেকে ১০ কিলোমিটার দক্ষিণে ইন্টারলাক এলাকায় দুটি গাড়ির সংঘর্ষে ওই প্রাণহানির ঘটনা ঘটে। ম্যানিটোবা ইসলামিক এ্যাসোসিয়েশন এমন তথ্য জানিয়েছে।

নিহত হওয়া ওই তিন শিক্ষার্থীরা হলেন- আল নোমান আদিত্য, রসুল বাধন ও অরণ্য আসাদ চৌধুরী। তারা সবাই ইউনিভার্সিটি অব ম্যানিটোবায় পড়াশোনা করতেন। তিন বন্ধু উইনিপেগ থেকে প্রায় ১১৫ কিলোমিটার উত্তরে হেকলা অঞ্চল থেকে ফেরার সময় এই দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়। তদন্তের জন্য এসময় মহাসড়কের একটি অংশ কয়েক ঘণ্টা বন্ধ ছিল। দুর্ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধারের পর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাদের মৃত ঘোষণা করে।

নিহতদের বয়স ২৩ থেকে ২৫ বছরের মধ্যে। দুর্ঘটনার পর ঘটনাস্থলেই দুজনের মৃত্যু হয়। এদিকে অপর গাড়ির চালক ৫৩ বছর বয়সী এক নারীকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উইনিপেগের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যদিকে এই তিন শিক্ষার্থী নিহত হওয়ার ঘটনায় কানাডা প্রবাসীদের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

নিউজ ট্যাগ: কানাডা
Share

আরও খবর

যুক্তরাজ্যে ফেরার অনুমতি পেলেন না শামীমা

শুক্রবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১




অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভ অব্যাহত, অচল মিয়ানমার

প্রকাশিত:সোমবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ০৬ মার্চ ২০২১ | ৬৮জন দেখেছেন
Share
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মিয়ানমারে সামরিক জান্তাদের হুমকির পরেও অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে। এরই মধ্যে সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) দেশটিতে সাধারণ ধর্মঘটে ব্যবসা-বাণিজ্য সব বন্ধ হয়ে গেছে। স্থানীয় দোকানগুলো বন্ধ রয়েছে। পাশাপাশি আন্তর্জাতিক চেইনগুলোও সোমবার ঘোষণা দিয়েছে, নিজেদের ব্যবসা বন্ধ রাখবে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, অভ্যুত্থানকারীদের একই সঙ্গে অং সান সু চির মুক্তি দাবিতে সাধারণ ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন বিক্ষোভকারীরা। কর্তৃপক্ষের হুমকি এড়িয়ে হাজার হাজার মানুষ রাস্তায় নেমেছেন। এ থেকে যে কোনো সময় আরও প্রাণহানি হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বিক্ষোভ ঠেকাতে মিয়ানমারের নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে শনিবার দুই বিক্ষোভকারী নিহত হয়েছেন। এ নিয়ে বিক্ষোভে তিনজন নিহত আছেন। তবে একজন পুলিশ সদস্যও বিক্ষোভে আহত হয়ে মারা গেছেন বলে জানিয়েছে সেনাবাহিনী।

এদিকে শনিবার দুজনের মৃত্যুও বিক্ষোভকারীদের পেছনে ফেরাতে পারেনি। এ দিন ইয়াঙ্গুনে যেমন তারা জড়ো হয়েছিলেন, তার চেয়ে আরও বেশি জড়ো হয়েছেন রোববার। সোমবার এর চেয়েও বেশি মানুষ অংশ নিয়েছেন ওই বিক্ষোভে।

নিউজ ট্যাগ: অচল মিয়ানমার
Share

আরও খবর



সীমান্তে নেপালি পুলিশের গুলিতে ভারতীয় যুবক নিহত

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৭ মার্চ ২০২১ | ৭৭জন দেখেছেন
Share
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সীমান্তে নেপালি পুলিশের গুলিতে মারা গেছেন এক ভারতীয় যুবক। বৃহস্পতিবার রাতে উত্তরপ্রদেশের ভারত-নেপাল সীমান্তবর্তী পিলভিট এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো।

ভারতীয় পুলিশ জানিয়েছে, নিহত যুবকের নাম গোবিন্দ সিংহ, বয়স ২৬ বছর। তার সঙ্গে থাকা আরেক যুবক ঘটনার পর থেকে নিখোঁজ রয়েছেন।

পিলভিটের পুলিশ সুপার জয়প্রকাশ জানান, সীমান্তবর্তী রাঘবপুরী গ্রাম থেকে গোবিন্দ সিং, গুরমিত সিং ও পাপ্পু সিং নামে তিন বন্ধু নেপালের বেলোরি বাজারে কোনও কাজে গিয়েছিলেন। গভীর রাতে ফেরার সময় তাদের মধ্যে কোনও বিষয়ে ঝগড়া লাগে।

ভারতীয় এ পুলিশ কর্মকর্তার দাবি, সীমান্ত এলাকায় তাদের বাকবিতণ্ডায় হয়তো নেতিবাচক কিছু ভাবে নেপাল পুলিশ। একারণে ওই যুবকদের দিকে গুলি চালায় তারা। এতে গুরুতর আহত হন গোবিন্দ। পরে হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা।

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার পর থেকে গোবিন্দর এক সঙ্গী এখনও নিখোঁজ। আরেকজন কোনওমতে প্রাণ বাঁচিয়ে ভারতে ফিরতে পেরেছেন। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। পাশাপাশি, নেপাল পুলিশের সঙ্গেও যোগাযোগের চেষ্টা করছে ভারতীয় কর্তৃপক্ষ।

এর আগে, গত বছরের মাঝামাঝি নেপালি পুলিশের গুলিতে মারা গিয়েছিলেন এক ভারতীয়। সেসময় বিহার সীমান্তে এক কৃষককে লক্ষ্য করে গুলি চালায় নেপালের পুলিশ। ওই ঘটনায় আহত হয়েছিলেন আরও তিনজন।

Share

আরও খবর



শ্রীপুরে অগ্নিকাণ্ডে ৬ টি দোকান পুড়ে ছাই

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৪ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৭ মার্চ ২০২১ | ৫০জন দেখেছেন
Share
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

শ্রীপুর (গাজীপুর) থেকে সেহেল রানা:

গাজীপুরের শ্রীপুরে অগ্নিকাণ্ডে কাওরাইদ বাজারের ৬টি দোকানে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। আগুনে ওইসব দোকানের সব মালামাল পুড়ে গেছে। এতে প্রায় ৫০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে অগ্নিকাণ্ডের শিকার দোকান মালিকেরা জানায়। বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে ১১ টায় উপজেলার কাওরাইদ বাজারে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। মাওনা ফায়ার সার্ভিসের সিনিয়র ষ্টেশন অফিসার মিয়া রাজ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

অগ্নিকাণ্ডের শিকার দোকান মালিক ও স্থানীয় ইউপি মেম্বার নূর ইসলাম জানান, রাত আনুমানিক ১০ টার দিকে সবাই দোকান বন্ধ করে চলে যাই। সাড়ে ১১ টার দিকে খবর পায় দোকানে আগুন জ্বলছে। পরে বাজারের লোকজন আগুন নেভাতে এগিয়ে আসে। ততক্ষনে আগুন তার তিনটি এবং পাশের ভাঙ্গারী ব্যবসায়ী আফজালের তিনটি দোকান পুড়ে যায়। ধারণা করা হচ্ছে পাশের পরিত্যক্ত ঘরে রাতের আঁধারে মাদক সেবীরা আড্ডা দেয়। রাতে তারা গাঁজা সেবন করার পর ওই গাঁজার আগুন থেকে অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হতে পারে।

মাওনা ফায়ার সার্ভিসের সিনিয়র ষ্টেশন অফিসার মিয়া রাজ জানান, খবর পেয়ে ঘটনস্থলে গিয়ে প্রায় এক ঘন্টা চেষ্টা করে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তাৎক্ষনিক ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ জানা যায়নি।


Share

আরও খবর



স্বামীর বিরুদ্ধে সুইসাইড নোট লিখে স্ত্রীর আত্মহত্যা

প্রকাশিত:শনিবার ০৬ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৭ মার্চ ২০২১ | ৭১জন দেখেছেন
Share
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

স্বামীর বিরুদ্ধে সুইসাইড নোট লিখে আত্মহত্যা করেছেন ফারহানা ফেরদৌস (৩২) নামে এক নারী। তিনি কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলা ভূমি অফিসের নারী কর্মচারী ছিলেন। আত্মহত্যা করার পূর্বে ফারহানা তার স্বামীকে দোষী করে সুইসাইড নোট লিখে যান।

ওই নারী সুইসাইড নোটে লিখেছেন, মৃত্যুর পর লাশ যেন তার স্বামী মহিউদ্দিন সরকারকে দেখানো না হয়। লাশ নিয়ে আইনি কোনো ঝামেলা না করার কথাও লেখেন তিনি।

চান্দিনা ধানসিঁড়ি আবাসিক এলাকার ভাড়া বাসা থেকে ভূমি অফিসের নারী কর্মচারীর মরদেহ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন চান্দিনা থানার ওসি শামসউদ্দিন মোহাম্মদ ইলিয়াছ। গত ৪ মার্চ রাতে আত্মহত্যার ঘটনাটি ঘটে।

 নিহত ফারহানা ফেরদৌস কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলা সদরের সাহাপাড়া এলাকার মো. ফেরদৌস মিয়ার মেয়ে এবং একই এলাকার মো. মহিউদ্দিন সরকারের স্ত্রী। তিনি চান্দিনা ভূমি অফিসের প্রধান সহকারী (নাজির)।

চান্দিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শামসউদ্দিন মোহাম্মদ ইলিয়াছ জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে মাত্রাতিরিক্ত ঘুমের ওষুধ সেবন করায় তার মৃত্যু ঘটেছে। এ ঘটনায় অপমৃত্যুর একটি মামলা করা হয়েছে। নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্ত করা হয়েছে। রিপোর্ট হাতে পেলে পরবর্তীতে তদন্ত সাপেক্ষে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Share

আরও খবর



করোনা ভ্যাকসিনের ২য় ডোজ দেওয়া হবে ৮ সপ্তাহ পর

প্রকাশিত:সোমবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৭ মার্চ ২০২১ | ৮৭জন দেখেছেন
Share
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চার সপ্তাহ নয়, আট সপ্তাহ পরে করোনা ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম।

সোমবার (১৫ ফ্রেব্রুয়ারি) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে সাংবাদিকদের তিনি একথা জানান।

তিনি বলেন, ইতোমধ্যে যারা টিকা নিয়েছেন। যাদের চার সপ্তাহ বা এক মাস পরে টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার তারিখ দেওয়া হয়েছে তাদের পরবর্তী ডোজের নতুন তারিখ এসএমএস-এর মাধ্যমে জানানো হবে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোলরুমের তথ্য অনুসারে, গত ২০ জানুয়ারি ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট উৎপাদিত অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ২০ লাখ ডোজ টিকা ভারত সরকার উপহার হিসেবে বাংলাদেশে পাঠায়। পরবর্তীসময়ে কেনা টিকার ৫০ লাখের প্রথম চালান আসে ২৫ জানুয়ারি। গত ২৭ জানুয়ারি দেশে টিকাদান কর্মসূচি শুরু করে। প্রথম দিন টিকা দেওয়া হয় ২৬ জনকে।

করোনা ভাইরাসের টিকাদান কার্যক্রমের দ্বিতীয় দিনে ২৮ জানুয়ারি রাজধানীর পাঁচ হাসপাতালে মোট ৫৪১ ব্যক্তিকে টিকা দেওয়া হয়। আর ৭ ফেব্রুয়ারি সারাদেশে টিকা কার্যক্রম শুরু হয়। এই দিনে সারাদেশে টিকা নিয়েছেন ৩১ হাজার ১৬০ জন। এখন পর্যন্ত টিকা নিয়েছেন নয় লাখ ছয় হাজার ৩৩ জন। এদের মধ্যে মোট ৪২৬ জনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা গেছে।

Share

আরও খবর