Logo
শিরোনাম

কংগ্রেস সভাপতি নির্বাচন নিয়ে নতুন জটিলতা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২২ সেপ্টেম্বর 20২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২ | ৩৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ভারতের বহু পুরোনো রাজনৈতিক দল কংগ্রেসের সভাপতি নির্বাচনে প্রার্থী হতে রাজি রাজস্থানের বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলট। কিন্তু সেটার জন্য রাজস্থানের মুকুট ছাড়তে নারাজ তিনি। বুধবার গভীর রাতে দলের রাজস্থানের বিধায়কদের এমনটাই জানিয়ে দিয়েছেন অশোক গেহলট। ফলে কংগ্রেসের সভাপতি নির্বাচন ঘিরে নতুন করে জটিলতা তৈরি হওয়ার একটা আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।

জানা গেছে, ১৭ অক্টোবর কংগ্রেসের সভাপতি নির্বাচন। শনিবার থেকে শুরু হবে মনোনয়ন পেশ। তাতে শশী থারুর যে মনোনয়ন দেবেন সেটা একপ্রকার নিশ্চিত। সোমবার কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করে থারুর সেই জল্পনা আরও উসকে দিয়েছেন।

তবে গান্ধী পরিবার ও তাদের ঘনিষ্ঠরা চাইছেন রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রীকে প্রার্থী করতে। গেহলট অবশ্য শুরু থেকেই পুরোপুরি রাজি নন। কারণ তিনি জানেন কংগ্রেস সভাপতি হলেও তাকে কাজ করতে হবে সোনিয়া-রাহুলদের ইশারাতেই। অথচ হাত থেকে রাজস্থানের গদি চলে যাবে বিরোধী শচীন পাইলটের হাতে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সোনিয়া গান্ধীর নির্দেশ তিনি ফেলতে পারেননি। রাজি হতে হয়েছে তাকে। তবে গেহলট জানিয়েছেন, তিনি শেষবারের মতো রাহুলকে বোঝানোর চেষ্টা করবেন।

আসলে গেহলট চান মুখ্যমন্ত্রিত্ব ধরে রেখে কংগ্রেস সভাপতি হতে। যদি নিতান্তই সেটা না হয়, তাহলেও তার ঘনিষ্ঠ কাউকে মুখ্যমন্ত্রী করতে। অন্যদিকে কংগ্রেসের একটা অংশ চাইছে, রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনের আগে শচীন পাইলটকে মুখ্যমন্ত্রী করে দিতে। যাতে বিরোধিতা এড়িয়ে ফের ক্ষমতায় আসতে পারে কংগ্রেস। সেই আশঙ্কা অবশ্য রয়েছে গেহলটের অন্দরেও। সেকারণেই তিনি চাইছেন রাহুলকে বুঝিয়ে রাজি করাতে। বুধবার সোনিয়ার সঙ্গে সাক্ষাতের পরই গেহলট যাবেন কেরালায়। সেখানেই ভারত জোড়ো যাত্রার নেতৃত্বে রয়েছেন রাহুল গান্ধী। শচীন পাইলটও এরই মধ্যে সেখানে পৌঁছে গিয়েছেন।

গেহলট বলছেন, তিনি শেষবারের মতো রাহুলকে সভাপতি হওয়ার জন্য বোঝানোর চেষ্টা করবেন। নেহাতই তিনি রাজি না হলে সভাপতি পদে প্রার্থী হবেন। শুধু তিনি একা নন, বুধবার আরও ৩ প্রদেশ কংগ্রেস কমিটি রাহুলকে সভাপতি করার দাবিতে প্রস্তাব পাশ করিয়েছে। কিন্তু শেষে রাহুল তাতে রাজি হবেন না বলেই মনে করা হচ্ছে।


আরও খবর

‘হাসি’ মানুষের সবচেয়ে ভালো ওষুধ

শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২




দেশে আরও ৬৭৯ জনের করোনা শনাক্ত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২ | ২৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও দুজনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৬৭৯ জন। বৃহস্পতিবার (২৯ সেপ্টেম্বর) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো করোনা বিষয়ক এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য মতে, ২০২০ সালের ৮ মার্চ দেশে করোনা ভাইরাসের প্রথম রোগী শনাক্ত হয়। এর ১০ দিন পর ১৮ মার্চ করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ৩৫৪ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ১৯ লাখ ৬৪ হাজার ৫০১ জন।

২৪ ঘণ্টায় ৫ হাজার ৩২টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। পরীক্ষা করা হয় ৫ হাজার ১৭টি নমুনা। পরীক্ষার বিপরীতে শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৫৩ শতাংশ। মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত মোট শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৬১ শতাংশ।

২০২০ সালের ৮ মার্চ দেশে প্রথম ৩ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। এর ১০ দিন পর ওই বছরের ১৮ মার্চ দেশে এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রথম একজনের মৃত্যু হয়। ২০২১ সালের ৫ ও ১০ আগস্ট দুদিন সর্বাধিক ২৬৪ জন করে মারা যান।

নিউজ ট্যাগ: করোনাভাইরাস

আরও খবর

করোনায় একজনের মৃত্যু, কমেছে শনাক্ত

বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২




ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে বিশেষ অভিযানের ঘোষণা ডিএনসিসি মেয়রের

প্রকাশিত:শনিবার ১০ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২ | ৫৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ডেঙ্গু রোগের বাহক এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে রবিবার (১১ সেপ্টেম্বর) থেকে সপ্তাহব্যাপী বিশেষ অভিযান পরিচালনার ঘোষণা দিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম। ডিএনসিসির দশটি অঞ্চলে দশটি টিম এই অভিযান পরিচালনা করবে। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটদের মাধ্যমে অভিযানে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত হবে। এডিসের লার্ভা পেলেই নেওয়া হবে আইনানুগ ব্যবস্থা।

শনিবার (১০ সেপ্টেম্বর) সকালে রাজধানী উত্তরায় ৫০ নম্বর ওয়ার্ডের আওতাধীন দক্ষিণখানে মধ্য আজমপুর এলাকায় এডিস মশার প্রকোপ নিয়ন্ত্রণে জনসচেতনতামূলক প্রচারাভিযানে ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম এসব কথা জানান।

বাসা-বাড়ি-অফিসে জমে থাকা পানিতে এডিসের লার্ভা পাওয়া গেলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়ে মেয়র বলেন, 'আইন অনুযায়ী নিয়মিত মামলা হবে। কঠোর থেকে কঠোরতর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আপনার বাড়ি বা স্থাপনার ভেতরে, বাইরে, আশপাশে কোথাও পানি জমে থাকলে এখনি ফেলে দিন। ডেঙ্গু থেকে আপনি সুরক্ষিত থাকুন, আপনার পরিবার ও প্রতিবেশীকে সুরক্ষিত রাখুন। বাড়িতে লার্ভার চাষ করে শাস্তি না পেয়ে বরং লার্ভার উৎস ধ্বংস করে পুরস্কৃত হোন।'

ডিএনসিসি মেয়র বলেন, ধারণা করা হয়েছিল অন্যান্য সময়ের তুলনায় এবছর ডেঙ্গু ভয়াবহ রূপ নিতে পারে। তাই বর্ষা মৌসুম শুরুর আগেই আমরা বছরের শুরু থেকে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে জনগণকে সচেতন করাসহ নানা কর্মসূচি চালিয়ে আসছি। তবে অতীতের সঙ্গে পরিসংখ্যান তুলনা করে দেখা যাচ্ছে এবছর ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা অনেকটা কম। আমাদের কার্যকর পদক্ষেপের কারণে এখন পর্যন্ত ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন এলাকায় ডেঙ্গু পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে সক্ষম হয়েছি। পার্শ্ববর্তী অনেক দেশের তুলনায়ও আমাদের দেশে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা অনেক কম। ডেঙ্গু পুরোপুরিভাবে নিয়ন্ত্রণ করাই আমাদের লক্ষ্য।'

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে প্রচারাভিযানে ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলামডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে প্রচারাভিযানে ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম

স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্য অনুযায়ী ৫০ নম্বর ওয়ার্ডের দক্ষিণখানের মধ্য আজমপুর এলাকায় বেশ কয়েকটি বাড়িতে ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী রয়েছে। মেয়র আতিকুল ইসলাম সরেজমিনে এলাকাটি পরিদর্শন করেন। দেখা গেছে এই এলাকায় অনেকগুলো  ভবনের নির্মাণ কাজ চলছে। বেশ কয়েকটি নির্মাণাধীন ভবনে পানি জমে আছে। একটিতে এডিসের লার্ভা পাওয়া গেছে। এসময় নির্মাণাধীন একটি ভবনে এডিসের লার্ভা পাওয়ায় ডিএনসিসির আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. জুলকার নাইন ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে এক লাখ টাকা জরিমানা আদায় করেন।

নগরবাসীর উদ্দেশ্যে মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম বলেন, শুধু সিটি করপোরেশনের পক্ষে পুরোপুরিভাবে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ সম্ভব নয়৷ এক্ষেত্রে জনগণের সহযোগিতা অতি গুরুত্বপূর্ণ। জনগণের আন্তরিক সহযোগিতায় গত ঈদে মাত্র ১২ ঘণ্টায় কোরবানির বর্জ্য অপসারণ করতে সক্ষম হয়েছি। জনগণের সহযোগিতা পেলে আমরা ডেঙ্গুও সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারবো। নিজেদের বাসাবাড়িতে ফুলের টব, অব্যবহৃত টায়ার, ডাবের খোসা, চিপসের খোলা প্যাকেট, বিভিন্ন ধরনের খোলা পাত্র, ছাদ কিংবা অন্য কোথাও যেন পানি জমে না থাকে সেদিকে সতর্ক দৃষ্টি রাখতে হবে। সুস্থতার জন্য সুস্থ পরিবেশের কোনও বিকল্প নেই। আর সুস্থ পরিবেশ নিশ্চিত করতে হলে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম-সংক্রান্ত সামাজিক আন্দোলনে সমাজের সর্বস্তরের জনগণকে সম্পৃক্ত করতে হবে।

আজমপুর এলাকায় প্রচারাভিযান শেষে ডিএনসিসি মেয়র নিকুঞ্জ-১ এলাকায় প্রচারাভিযানে অংশ নেন। তিনি আজমপুর ও নিকুঞ্জ এলাকায় বিভিন্ন রাস্তায় ঘুরে ঘুরে জনসাধারণকে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করেন এবং নিজে মাইকিং করে সচেতন করেন। নিকুঞ্জ এলাকায় অভিযানকালে দুটি বাড়িতে এডিসের লার্ভা পাওয়া যায়। বাড়ি দুটির মালিক বিদেশে অবস্থান করায় খিলক্ষেত থানায় দুটি নিয়মিত মামলা দায়ের করা হয়।

প্রচারাভিযানে অন্যান্যের মধ্যে ডিএনসিসির প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রি. জেনারেল মো. জোবায়দুর রহমান, প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা কমডোর এস এম শরিফ উল ইসলাম, ১৭ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. ইসহাক মিয়া, ৫০ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর ডি. এম. শামিম, সংরক্ষিত আসনের কাউন্সিলর হাছিনা বারী চৌধুরী ও জাকিয়া সুলতানা এবং নিকুঞ্জ-১ কল্যাণ সমিতির সভাপতি ইকবাল সোবহান চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজ ট্যাগ: ডেঙ্গু জ্বর

আরও খবর



গ্রাহকদের টাকা ফেরত দেওয়া নিয়ে যা বললেন ইভ্যালির চেয়ারম্যান

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২ | জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ইভ্যালির সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিন বলেছেন, আমাদের দেনা পরিশোধে সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন দেশি-বিদেশি বিনিয়োগ। আগামী একবছর নিরবচ্ছিন্ন ব্যবসা করতে পারলে বিনিয়োগ পাওয়া সম্ভব। প্রথম বিনিয়োগ থেকে সব দেনা পরিশোধ করা সম্ভব।’ আজ বৃহস্পতিবার বিকালে এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন শামীমা নাসরিন।

ইভ্যালির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিন বলেন, আমরা মনে করি ইভ্যালির ৪৫ লাখ ক্রেতা ও ৩০ হাজার বিক্রেতা দৈনন্দিন প্রয়োজনে নিয়মিত কেনাকাটা করলে সহজেই দেশি-বিদেশি বিনিয়োগ আসা সম্ভব। অনেকেই হয়ত অবগত আছেন, আগে ইভ্যালিতে বিনিয়োগের জন্য বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে আমরা কথা বলেছি। তারই ধারাবাহিকতায় বর্তমানে আমাদের সুষ্ঠুভাবে ব্যবসা পরিচালনা করার সুযোগ তৈরি হলে খুব সহজেই বিনিয়োগ আসা সম্ভব হবে বলে আমার দৃঢ় বিশ্বাস।

শামীমা নাসরিন বলেন, কিছু-কিছু ক্ষেত্রে ব্যবসায়িক নীতিমালার ত্রুটিগুলো আমরা স্বীকার করে দেনা-পাওনা এবং সব পেন্ডিং অর্ডার ডেলিভারির জন্য ছয় মাস সময় চেয়েছিলাম। তবে সেই সময় পাওয়ার আগেই পাওনা পরিশোধ বিলম্ব হওয়ার অভিযোগ এবং চেক ডিজঅনার সম্পর্কিত মামলায় আমরা গ্রেপ্তার হই।

গ্রাহকদের টাকা ফেরত দেওয়ার বিষয়ে ইভ্যালির চেয়ারম্যান বলেন, আগের অর্ডার করা পণ্য ও রিফান্ডের অর্থ ফেরত দেব। এজন্য আমাদের প্রথমে সার্ভার খোলা জরুরি। সার্ভারের আইডি ও কোড একটি জটিল নম্বর। এটি মনে রাখা বা মুখস্ত করে রাখার বিষয় নয়। এ আইডিটি হারিয়ে যাওয়ায় এখন জটিল হয়ে দাঁড়িয়েছে। 

আইডি পুনরুদ্ধারের চেষ্টা করা হচ্ছে জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা এ বিষয়ে অ্যামাজনের সঙ্গে যোগাযোগ করছি। যদি আমাদের সাবেক এমডি রাসেল বাইরে থাকতেন, তাহলে বিষয়টি সহজ হতো। কিন্তু বর্তমানে তিনি কারাগারে থাকায় পুরো প্রক্রিয়াটি জটিল রূপ ধারণ করেছে। তবে আশা করা হচ্ছে অচিরেই এটি সমাধান হবে।

প্রতারণা ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ এনে গত বছরের ১৫ সেপ্টেম্বর আরিফ বাকের নামের এক গ্রাহক গুলশান থানায় ইভ্যালির মো. রাসেল ও তার স্ত্রী শামীমা নাসরিনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। পরদিন বিকেলে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের স্যার সৈয়দ রোডের বাসা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

গত ২১ এপ্রিল চেক প্রতারণার ৯ মামলায় ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেলকে জামিন দেন আদালত। ওই দিন ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালত থেকে জামিন পান তিনি। তবে তার বিরুদ্ধে আরও মামলা থাকায় কারামুক্ত হতে পারেননি রাসেল। শামীমা নাসরিন বর্তমানে জামিনে রয়েছেন।

গত ২২ সেপ্টেম্বর শামীমা নাসরীন, তার মা ও বোনের স্বামীকে যুক্ত করে নতুন পরিচালনা বোর্ড গঠন করেন হাইকোর্ট। তার আগে গত ২১ সেপ্টেম্বর ইভ্যালির দায়িত্ব থেকে পদত্যাগ করেন সাবেক বিচারপতি এইচ এম শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিকের নেতৃত্বাধীন পাঁচ সদস্যের পরিচালনা বোর্ড।


আরও খবর

৩১ ডিসেম্বরের পর পাম অয়েল বিক্রি বন্ধ

বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২

দাম কমলো পাম তেলের, বেড়েছে চিনির

বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২




আজ রাজধানীর কোথায় কখন লোডশেডিং

প্রকাশিত:শনিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ | ৩৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

দেশে বিদ্যুতের ঘাটতি কমাতে গত ১৯ জুলাই থেকে চলছে শিডিউল করে এলাকাভিত্তিক লোডশেডিং। প্রতিদিনই রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় সকাল থেকে রাত পর্যন্ত দফায় দফায় লোডশেডিং কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে।

শনিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০টা থেকে সেই ধারাবাহিকতায় শুরু হবে লোডশেডিং কার্যক্রম। চলবে রাত ১২টা পর্যন্ত।

রাজধানীর বিদ্যুৎ বিতরণ সংস্থা ঢাকা পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড (ডিপিডিসি) ও ঢাকা ইলেকট্রিক সাপ্লাই কোম্পানি লিমিটেড (ডেসকো) কোথায় কখন লোডশেডিং হবে, তার তালিকা দিয়েছে।

গ্রাহকরা লোডশেডিংয়ের শিডিউল দেখতে ক্লিক করুন ডিপিডিসিডেসকোর ওপর।


আরও খবর

জেনে নিন রাজধানীতে কখন কোথায় লোডশেডিং

বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২




বন্ধুকে গলা কেটে হত্যার পর পাশেই বসেছিলেন যুবক

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ | ৫৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

জামালপুর সদর উপজেলায় জাহিদ হাসান (২৫) নামে এক যুবককে গলা কেটে হত্যার অভিযোগ উঠেছে বন্ধুর বিরুদ্ধে। মঙ্গলবার (১৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে উপজেলার রানাগাছা ইউনিয়নের মহেশপুর কালিবাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। জাহিদ পৌর শহরের নয়াপাড়া এলাকার জাবেদ মিয়ার ছেলে।

এ ঘটনায় ধারালো ছুরিসহ সাজু মিয়া (৩০) নামে নিহতের বন্ধুকে ঘটনাস্থল থেকে আটক করা হয়। তিনি সদর উপজেলার মহেশপুর কালিবাড়ি এলাকায় মৃত শাহেদ আলীর ছেলে।

পুলিশ জানায়, গত রমজান মাসে কারাগারে জাহিদের সঙ্গে সাজুর পরিচয় হয়। সেই পরিচয় থেকে তাদের মাঝে বন্ধুত্ব গড়ে ওঠে। গত সোমবার রাত ১১টার দিকে উপজেলার মহেশপুর কালিবাড়ি এলাকায় সাজু মিয়ার বাড়িতে আসেন জাহিদ। রাতে সাজু মিয়ার ঘরে বসে দুই বন্ধু নেশা করে ঘুমিয়ে পড়েন। পরদিন বেলা সাড়ের ১১টার দিকে ঘুম থেকে উঠে সাজু ছুরি দিয়ে জাহিদকে গলা কেটে হত্যা করেন। বন্ধুকে হত্যার পর সাজু মিয়া তার মরদেহ নিয়ে ওই ঘরেই বসে থাকেন। পরে দুপুরে প্রবল বৃষ্টির সময় জাহিদের মরদেহ ঘর থেকে বের করে জামালপুর-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে নিয়ে আসেন। পরে স্থানীয়রা সাজুকে আটক করে পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয় পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে জামালপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী শাহনেওয়াজ বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহত জাহিদের মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় অস্ত্রসহ একজনকে আটক করা হয়েছে। তবে কী কারণে তাকে খুন করা হয়েছে তা এখনো জানা যায়নি। এ ঘটনায় সদর থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

নিউজ ট্যাগ: গলা কেটে হত্যা

আরও খবর