Logo
শিরোনাম

নেত্রকোনায় কিশোরী জঙ্গি সদস্য আটক

প্রকাশিত:শনিবার ২৮ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ১৪৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

নেত্রকোনায় এক কিশোরী জঙ্গি (১৭) সদস্যকে আটক করেছে র‍্যাব-৩। শুক্রবার (২৭ মে) ভোরে সদর উপজেলার চল্লিশা ইউনিয়নের মোগরাটিয়া গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে তাকে আটক করা হয়। স্থানীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী তিনি।

নেত্রকোনা মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক মো. সোহেল রানা জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে নিজ বাড়ি থেকে কিশোরীকে আটক করে র‍্যাব-৩ এর একটি টিম। পরে শুক্রবার মধ্যরাতে র‍্যাব-৩ এর ডিএডি মো. ইখতিয়ার হোসেন বাদি হয়ে তার বিরুদ্ধে মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

সে নিষিদ্ধ সংগঠন আনসার আল ইসলামের সদস্য এবং শনিবার (২৮ মে) বিকালে তাকে কোর্টে প্রেরণ করা হয় বলেও জানান এই পুলিশ পরিদর্শক।


আরও খবর



প্রস্তুত হচ্ছে গাবতলীর পশুর হাট

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৫১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সিলেট-সুনামগঞ্জ আর উত্তরাঞ্চলের বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি হলেও বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। এমন অবস্থায় দরজায় কড়া নাড়ছে পবিত্র ঈদুল আজহা। মুসলমানদের বড় এ ধর্মীয় উৎসব ঘিরে তাই কোরবানির পশুর হাট সাজাতে ব্যস্ত সময় কাটছে ইজারাদারদের। গত রোজার ঈদের পর থেকে গরুর মাংসের দাম, পশুখাদ্যের দামও লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। সবমিলিয়ে এবারও শেষপর্যায়ে পশুর হাট জমার আশা করছেন বিক্রেতা ও ইজারাদাররা। ঈদ উপলক্ষে রাজধানীতে এবার ১৯টি পশুর হাট বসছে। ঈদের বাকি এখনো দুই সপ্তাহের বেশি। হাটে কোরবানির পশু না এলেও সাজগোজের প্রস্তুতি চলছে।

গাবতলীর স্থায়ী পশুর হাটে গিয়ে দেখা গেছে, হাটের প্রস্তুতি নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন সংশ্লিষ্টরা। চলছে হাটের বর্ধিতাংশে প্যান্ডেলের বাঁশ লাগানোর কাজ। কোথাও কোথাও লাইট লাগানোর কাজ চলছে। নির্মাণশ্রমিকদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, এক সপ্তাহ আগে নির্মাণকাজ শুরু হয়েছে। বাঁশ তৈরি হচ্ছে গরু রাখার শেড। তবে শেডের ওপরে এখনো ত্রিপল বসানোর কাজ শুরু হয়নি। অনেক জায়গা থেকে অপ্রয়োজনীয় কাদামাটি অপসারণ করা হচ্ছে। চলছে ওয়াচটাওয়ার, মোবাইল ব্যাংকিং বুথ নির্মাণের কাজও। ব্যাপারীদের কাছে এখনো জায়গা ভাড়া দিতে পারেননি ইট, বালুর দোকানের মালিকরা। বন্যা ও নির্মাণসামগ্রীর বাড়তি দামের কারণে এখনো অবিক্রিত রয়েছে তাদের অনেক পণ্য। এ কারণে সেখানে পশু রাখার শেড তৈরি করা যাচ্ছে না। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, হাটের নির্মাণকাজ শেষ হতে আরও তিন-চারদিন সময় লাগবে।

সেখানে রসুল নামে এক শ্রমিকের সঙ্গে কথা হলে তিনি বলেন, কাজ মাঝামাঝি পর্যায়ে আছে বলা যায়। এখনো অনেকে জায়গা হাটের জন্য ছাড়েননি। তাই প্যান্ডেল-শেড নির্মাণ করা যাচ্ছে না। তবে হাটের ভেতরে বাইরে ভাঙাচোরা রাস্তা সংস্কারের কোনো উদ্যোগ চোখে পড়েনি। ফলে বৃষ্টি হলে এবারও হাঁটু কাদায় নেমে কেনাকাটা করতে হবে ক্রেতাদের। করোনার সংক্রমণ বাড়লেও জ্বর মাপা, সাবান কিংবা স্যানিটাইজার দিয়ে হাত ধোয়ার কোনো ব্যবস্থা দেখা যায়নি। বিষয়টি নিয়ে জানতে চাইলে সংশ্লিষ্টরা দায়সারা উত্তর দিয়েছেন।

ঈদের ১০ থেকে ১৫ দিন আগে থেকে অস্থায়ী পশুর হাট সাজানোর প্রস্তুতি নেন ইজারাদাররা। গাবতলী স্থায়ী পশুর হাটের আশপাশে রয়েছে ৫০০টিরও বেশি ইট ও বালুর দোকান। স্থানীয়ভাবে সেগুলোকে বলা হয় গদি। কোরবানির হাট বসলে এসব গদি পশু ব্যাপারীদের কাছে ভাড়া দেন মালিকরা। জানা গেছে, স্থায়ী হাট সংলগ্ন জায়গা বেশিরভাগ গদির মালিক ভাড়া দিয়ে ফেলেছেন। বেশিরভাগ গদি বন্ধ থাকলেও তাদের নির্মাণসামগ্রী এখনো পড়ে আছে। তবে স্থায়ী হাট থেকে ৫০০ গজ দূরে গদির মালিকরা এখনো ব্যাপারীর দেখা পাননি বলে জানিয়েছেন।

নাহিয়ান ট্রেডার্সের কর্মচারী আক্কাস  বলেন, এখনো ব্যাপারীরা আসেননি। আমাদের অনেক নির্মাণসামগ্রী পড়েও আছে। ব্যাপারীরা এলেও জায়গা ছাড়তে পারবো না। ইট আছে এগুলো বিক্রি করে তারপর জায়গা ভাড়া দিতে হবে। ঈদের আগে চারদিন, আর ঈদের দিনের জন্য জায়গা ভাড়া দিই। তবে জায়গা পরিষ্কার করতে ঈদের পর আরও তিন চারদিন লাগে। সব মিলিয়ে সাত থেকে আটদিন কিছু রাখা যায় না। এ গদির সামনে হাসিল ঘর বসে। সামান্য একটু জায়গা থাকে সেটা ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকা ভাড়া দেওয়া হয় তিন/চারদিনের জন্য। তবে নির্মাণসামগ্রী স্থানান্তর ও ঈদের পর পরিষ্কার-পরিচ্ছনতায় অনেক টাকা চলে যায়। সামনের দিকে যাদের গদি তারা আরও বেশি টাকায় ভাড়া দেন।

একাধিক গদির মালিকের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, স্থায়ী হাট থেকে দূরে থাকা দোকানগুলোর জায়গা এখনো ভাড়া হয়নি। ব্যাপারীরা কথা বললেও ভাড়া নিচ্ছেন না। এখনো অনেক নির্মাণসামগ্রী অবিক্রিত পড়ে আছে।

স্থায়ী হাট সংলগ্ন আনোয়ার ট্রেডার্সের ম্যানেজার নাসির জানান, তাদের জায়গা তিনদিন আগে ভাড়া হয়ে গেছে। আগামী সপ্তাহের পর থেকে পশু আশা শুরু করবে। হাটের কাছাকাছি গদির জায়গাগুলো স্থানভেদে ৮০ হাজার থেকে লাখ টাকার ওপরে ভাড়া হয় বলেও জানান তিনি। গাবতলী স্থায়ী পশুর হাট পরিচালনা কমিটির সদস্য সানোয়ার হোসেন বলেন, শেড নির্মাণের কাজ চলছে। ভেতরে রাস্তা, হাসিল কাউন্টার তৈরির কাজ করছি। এবার ব্যবসায়ী ও ক্রেতাদের জন্য ৫০টি হাসিল ঘর তৈরি করা হবে, হাটে দেড় হাজার স্বেচ্ছাসেবী কাজ করবেন। জাল টাকা শনাক্তের যন্ত্র বসানো হবে। পশু চিকিৎসক ও ব্যবসায়ীদের দেখতে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকও রাখা হবে। হাটের সার্বিক পরিস্থিতি বিষয়ে গাফিলতির সুযোগ নেই। এবারও ঈদের আগে পরের পাঁচদিন পাঁচ শতাংশ হারে হাসিল আদায় করা হবে।

শেষ সময়ে জমবে হাট, চাহিদা থাকবে মাঝারি গরুর:

বন্যা ও পশু খাদ্যের চড়া দামের কারণে এবার পশুর দাম একটু বেশি হতে পারে বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। এর ফলে গতবারের মতো এবারও বড় গরু কম বিক্রি হওয়ার আশা করছেন তারা। তবে কোরবানির বাজারকে খুব জটিল উল্লেখ করে ব্যবসায়ীরা বলছেন, হাটের গতি-প্রকৃতি খুব দ্রুত পরিবর্তন হয়।

ফরিদপুরের ব্যাপারী শাহিন আহমেদ। দীর্ঘদিন ধরেই গাবতলী হাটে কোরবানির পশু আনেন।  তিনি বলেন, কোরবানির বেচাকেনা নিয়ে কোনো কিছুই আগে বলা যায় না। কেমন পশু উঠবে তা আগে থেকে বলা যাচ্ছে না। কোনো পশু কাস্টমাররা ধরলে তার দাম বেড়ে যায় কয়েক হাজার টাকা আর কেউ দাম না বললে, পশুর দাম কমে যায়। গরুর খাবার দাম কয়েকগুণ বেড়েছে। ভূষির দাম গত বছর ছিল ৪০ টাকা এবছর সেটা ৬০ টাকা। এরকম খড়, ঘাস সবকিছুর দাম বেড়েছে। সে হিসাবে পশুর দাম বাড়বে, ক্রেতারা অনেক দেখে শুনে পশু কিনবে। সেক্ষেত্রে এবারও শেষ সময়ে পশুর হাট জমবে।

ভোলার থেকে আসা ব্যাপারী বাদশা বলেন, এবার পশুখাদ্যের দাম চড়া। জ্বালানি তেলের দামও বাড়তি অন্যবারের তুলনায় এবার পশুর দাম বেশি হবে। তিনি বলেন, হাটের জায়গা ভাড়া-যাতায়াত কর্মচারীদের বেতন আছে। এখন তিন মণের গরুর কিনতে হচ্ছে এক লাখ টাকায়। কসাইদের কাছে বিক্রি করছি এক লাখ ১৫ থেকে ২০ হাজার টাকায়। ঈদের সময় এমন বা এর চেয়ে সামান্য বেশি হবে দাম। বড় গরু পালনে বেশি খরচ লাগে। ঢাকায় আনতে খরচ বেশি। এজন্য এবারও বড় গরু কম বিক্রি হতে পারে। ঢাকায় তিন-চারজন মিলে একটা গরু দেয়। তাদের বাজেট থাকে ৮০ হাজার থেকে দেড় লাখের আশপাশে। এ টাকায় মাঝারি গরু পাওয়া যায়, এবারও এমন গরুর চাহিদা বেশি থাকবে।


আরও খবর

ভিড় নেই লঞ্চে, ভাড়াও কমেছে

শনিবার ০২ জুলাই 2০২2




বিএনপি বন্যার্তদের নিয়ে অপরাজনীতি শুরু করেছে: ওবায়দুল কাদের

প্রকাশিত:রবিবার ১৯ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৬২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দলটির নেতাদের বিভিন্ন বক্তব্যের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, দেশের মানুষ যখন প্রাকৃতিক দুর্যোগ বন্যার কারণে বেঁচে থাকার সংগ্রামে লিপ্ত ঠিক তখন বিএনপি মহাসচিবের হীন রাজনৈতিক আচরণ অত্যন্ত দুঃখজনক। বিএনপি দুর্ভাগ্যজনকভাবে বন্যার্তদের নিয়ে অপরাজনীতি শুরু করেছে এবং দুর্গত মানুষকে নিয়ে পরিহাস করছে।

রবিবার (১৯ জুন) এক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন তিনি। বিএনপি নেতারা মানুষের দুর্ভোগ নিয়ে রাজনীতি করছে মন্তব্য করে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি নেতাদের আচরণ খুব অমানবিক, অতীতে কোনো দুর্যোগ মোকাবিলায় বিএনপির পক্ষ থেকে কোনো ধরনের প্রচেষ্টা ও উদ্যোগ জনগণ দেখেনি।

তিনি বলেন, বিএনপি শুধু লিপ সার্ভিসের মাধ্যমে মানুষের দুঃখ- দুর্দশা নিয়ে রাজনীতি করে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, সিলেটের বন্যা কোনো মানবসৃষ্ট দুর্যোগ নয়, এটি প্রাকৃতিক দুর্যোগ আর এই প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার অতীতের যেকোনো সরকারের চেয়ে সফলতা অর্জন করেছে।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আশা প্রকাশ করে বলেন, সরকারের প্রতি কোনোরকম বিষোদগার বা দোষারোপ না করে এই দুর্যোগের সময় বিএনপির নেতাকর্মীরা দুর্গতদের পাশে দাঁড়াবে বলে আশা করি।

এই দুর্যোগকে পুঁজি করে রাজনৈতিক স্বার্থ চরিতার্থ থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানিয়ে বিএনপি নেতাদের উদ্দেশে তিনি বলেন,জনমনে বিভ্রান্তি সৃষ্টি হয় এমন মিথ্যাচার ও অপপ্রচার না করারও অনুরোধ করছি।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জানান, বৃহত্তর সিলেট অঞ্চলের সৃষ্ট বন্যার কারণে মানুষের জানমালের নিরাপত্তার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরাসরি নির্দেশে দুর্যোগ মোকাবিলায় বাংলাদেশ সেনাবাহিনী, নৌবাহিনী, বিজেবি, কোস্টগার্ডসহ স্থানীয় প্রশাসন মানুষের কষ্ট লাঘবে সর্বাত্মক কার্যক্রম পরিচালনা করছে।

তিনি তার বিবৃতিতে আরও বলেন, মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে নিতে সিলেট ও সুনামগঞ্জে বন্যার্তদের জন্য ৬০০ আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে। সেখানে হাজার হাজার মানুষ আশ্রয় নিয়েছে।

যেকোনো প্রয়োজনে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তায় সেনাবাহিনী টোল ফ্রি নম্বর চালু করেছে জানিয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, বানভাসি মানুষের স্বাস্থ্যসেবায় ইমারজেন্সি কন্ট্রোল রুম চালু করেছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

ওবায়দুল কাদের বলেন, পরিস্থিতি সার্বক্ষণিক পর্যবেক্ষণে মনিটরিং টিম ও মেডিকেল বোর্ডও গঠন করা হয়েছে। পানিবন্দী মানুষের মাঝে শুকনো খাবার, বিশুদ্ধ পানি, প্রয়োজনীয় ওষুধ ও স্যালাইনের পাশাপাশি রান্না করা খাবারও বিতররণ করছে স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনগুলোর নেতৃবৃন্দ।

তিনি জানান, বন্যার পানি সরে গেলেও এই তৎপরতা অব্যাহত থাকবে এবং আরও জোরদার করা হবে। দুর্যোগপূর্ণ এই সময়ে দেশের সকল বিত্তবান মানুষকে দুর্যোগকবলিত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান জানান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।


আরও খবর



কুমিল্লায় ফল পরিবর্তনের কোনো সুযোগ নেই : ইসি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৬ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২ | ৫৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে, ফল পরিবর্তনের কোনো সুযোগ নেই বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মো. আলমগীর।বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান তিনি।

ইসি আলমগীল বলেন, সংসদ সদস্য আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহারের বিরুদ্ধে অন্য প্রার্থীদের অভিযোগের সত্যতা পেয়ে তাকে চিঠি দেয়া হয়েছিল।

উল্লেখ্য, গতকাল বুধবার কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ভোট হয়েছে ইভিএমে। এতে ৫০ হাজার ৩১০ ভোট পেয়ে কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশনের নতুন নগরপিতা হলেন আওয়ামী লীগের আরফানুল হক রিফাত।


আরও খবর



ইউক্রেনের শপিংমলে রুশ হামলায় নিহত ১০

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৩৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ইউক্রেনের পোলটাভা অঞ্চলের ক্রেমেনচুকে একটি শপিংমলে রুশ ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হানলে বহু লোক হতাহত হয়। বিবিসির সবশেষ খবরে বলা হয়, এ হামলায় অন্তত ১০ জন নিহত এবং ৪০ জন আহত হয়েছেন । তবে হতাহতের সংখ্যা আরো বাড়বে বলে মনে করা হচ্ছে।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি জানিয়েছেন, মধ্যাঞ্চলীয় শহর ক্রেমেনচুকের একটি জনাকীর্ণ শপিংমলে ওই হামলার সময় ভেতরে এক হাজারের বেশি মানুষ ছিল। বিপণীকেন্দ্রটিতে এখন ব্যাপক উদ্ধার তৎপরতা চলছে।

স্থানীয় সময় বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে অ্যামস্টোর নামের শপিং সেন্টারটিতে ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হানে। ধারণা করা হচ্ছে এটি একটি 'গাইডেড মিসাইল' বা নির্দিষ্ট লক্ষ্যে আঘাত করার মত ক্ষেপণাস্ত্র ছিল।

আক্রান্ত শপিং সেন্টারটি রুশ-নিয়ন্ত্রিত এলাকা থেকে প্রায় ৮১ মাইল দূরে।

জাতিসংঘের এক মুখপাত্র স্টেফান দুজারিচ বেসামরিক স্থাপনার ওপর এমন হামলার তীব্র নিন্দা করেছেন। পোলটাভা অঞ্চলের প্রশাসনের প্রধান কর্মকর্তা দিমিত্রো লুনিন এ আক্রমণকে 'যুদ্ধাপরাধ' বলে বর্ণনা করেছেন।

মধ্য ইউক্রেনে দনিপার নদীর তীরের এই শিল্পকারখানা সমৃদ্ধ শহরটিতে প্রায় ২২০,০০০ লোক বাস করে। এর আগেও শহরটির তেল শোধনাগার ও অন্যান্য স্থাপনার ওপর রুশ ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়েছে।


আরও খবর



আজকের রাশিফল: রবিবার ২৬ জুন ২০২২

প্রকাশিত:রবিবার ২৬ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৬৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

জোতিষ বিচারের মাধ্যমে জেনে নিন, আজকের রাশিফল রবিবার ২৬ জুন ২০২২। মেষ, বৃষ, মিথুন, কর্কট, সিংহ, কন্যা, তুলা, বৃশ্চিক, ধনু, মকর, কুম্ভ, মীন এই রাশিগুলির দিনটি কেমন কাটবে।

মেষ রাশি: পিঠে ব্যথায় সমস্যা হতে পারে। আজ সারা দিন অক্লান্ত পরিশ্রম করলেও আর্থিক অবস্থার খুব একটা উন্নতি হবে না। আজ দুপুরের পরে দাম্পত্য দিক সুখেই কাটবে।

বৃষ রাশি: স্ত্রীর বেহিসেবি খরচে সংসারে অশান্তি বাধতে পারে। বন্ধুদের ব্যবহারে দুঃখ পেতে পারেন। নিজের বুদ্ধি দিয়ে কর্মস্থানে উন্নতি। যানবাহন বা জমি কোনও কিছু কেনার আগে ভাবনাচিন্তা করা প্রয়োজন।

মিথুন রাশি: আজ সবথেকে বিশ্বাসযোগ্য মানুষ আপনাকে ঠকাতে পারে। ন্যায্য পাওনা আদায় করতে গিয়ে বিবাদ হতে পারে। উচ্চপদস্থ চাকরির খোঁজ আসতে পারে। পেটের সমস্যায় ভোগান্তির আশঙ্কা।

কর্কট রাশি: বুঝে খরচ করুন, আজ ব্যয়বহুল দিন। সংসারে কোনও দায়িত্ব থাকলে তাড়াতাড়ি সেরে ফেলুন। আজ নিয়মিত কাজে বাধা আসবে। সন্তানের ব্যাপারে উদ্বিগ্নতা থাকবে।

সিংহ রাশি: আজ স্ত্রী এমন কিছু কাজ করবেন যা দেখে আপনাকে হতভম্ব হতে হবে। নিজের কাজের ওপর নিজের গর্ববোধ হবে। জ্বরজ্বালায় ভোগান্তির আশঙ্কা আছে। নতুন বাড়ি তৈরির পরিকল্পনা।

কন্যা রাশি: আজ নিজের কারও জন্য মানসিক পীড়া হতে পারে। প্রতিবেশীর সঙ্গে বিবাদে আইনি ঝঞ্ঝাট হতে পারে। বেশি কথা বলায় ক্ষতি হতে পারে। বাড়তি উপার্জন হওয়ার যোগ আছে।

তুলা রাশি: কাউকে বিশ্বাস করলে ঠকতে হতে পারে। আজ সব কাজের জন্য একটু ধৈর্য ধরতে হবে। পরিবারের সঙ্গে কোথাও ভ্রমণ হতে পারে। দুর্ঘটনা থেকে সাবধান থাকা দরকার। বাড়তি কিছু খরচ হতে পারে।

বৃশ্চিক রাশি: জমি বা সম্পত্তি কেনাবেচা করার শুভ দিন। শেয়ারে বাড়তি লগ্নি চিন্তা বৃদ্ধি ঘটাতে পারে। সন্তানের কাজে মুখ উজ্জ্বল হবে। পেটের সমস্যায় ভোগান্তির আশঙ্কা। হাঁটাচলা খুব সাবধানে করা উচিত।

ধনু রাশি : ব্যবসায় বিশেষ লাভের শুভ যোগ দেখা যাচ্ছে। দূরে বেড়াতে যাওয়ার পরিকল্পনা সফল হতে পারে। বিদ্যার্থীদের সামনে নতুন পথ খুলতে পারে। বাত রোগে কষ্ট পাওয়ার আশঙ্কা আছে। বাড়তি ব্যবসায় লাভ হবে।

মকর রাশি: ব্যবসায় নতুন কিছু আজ না করাই ভাল হবে। বাড়িতে সবাই খুব সতর্ক থাকুন, চোরের ভয় আছে। অর্থনৈতিক সমস্যার সম্মুখীন হতে হবে। আপনার দ্বারা যে কাজ সম্ভব নয় সে দিকে যাবেন না।

কুম্ভ রাশি : সারা দিন সাংসারিক শান্তি বজায় থাকলেও রাতের দিকে অশুভ। অযথা কোনও ঝামেলায় জড়িয়ে পড়তে পারেন। সন্তানদের নিয়ে চিন্তা বৃদ্ধি পেতে পারে।

মীন রাশি : আজ শরীরে কোথাও আঘাত লাগার আশঙ্কা আছে। সংসারে আর্থিক টান থাকলেও সেটা মিটে যাবে। সারা দিন নির্ঝঞ্ঝাটে কাটবে। আজ অর্থ উপার্জনের ভাগ্য ভাল ও আর্থিক উন্নতি থাকবে।


আরও খবর

আজকের ভালো মন্দ

শনিবার ০২ জুলাই 2০২2