Logo
শিরোনাম

অতিরিক্ত পণ্য না কেনায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের আহ্বান

প্রকাশিত:রবিবার ০৪ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ এপ্রিল ২০২১ | ৭৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মজুত পর্যাপ্ত রয়েছে, তাই অতিরিক্ত নিত্যপণ্য না কেনার আহ্বান জানিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।

রোববার (৪ এপ্রিল) দুপুরে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র তথ্য অফিসার মো. আব্দুল লতিফ বকসীর পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ আহ্বান জানানো হয়।

ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) জানিয়েছে, এ বছর নিত্যপণ্যের দাম বাড়তি থাকার কারণে পণ্য বিক্রি কার্যক্রম বাড়িয়েছে টিসিবি। রমজানে যেসব পণ্যের বেশি চাহিদা থাকে, সেগুলোর ১০ থেকে ১২ শতাংশ টিসিবির মজুত রয়েছে।

রমজান উপলক্ষে সংস্থাটি সাশ্রয়ী মূল্যে ২৬ হাজার ৫০০ টন ভোজ্যতেল, ১৮ হাজার টন চিনি, ১২ হাজার টন মসুর ডাল, ৮ হাজার টন ছোলা ও ৬ হাজার টন পেঁয়াজ বিক্রি করবে।

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে ১৭ মার্চ থেকে খোলাবাজারে প্রথম ধাপে ৪০০ ট্রাকে ভোজ্যতেল, চিনি, মসুর ডাল ও পেঁয়াজ বিক্রি করে আসছে টিসিবি।

রমজান উপলক্ষে দ্বিতীয় ধাপে ট্রাকের সংখ্যা বৃদ্ধি করে ৫০০টি করা হয়েছে। এর মধ্যে রাজধানীতে পণ্য বিক্রি করবে ১০০ ট্রাক। তখন ট্রাকসেলে যুক্ত হবে ছোলা ও খেজুর। এসব পণ্য ১ এপ্রিল থেকে ই-কমার্সের মাধ্যমেও বিক্রি করবে সংস্থাটি। কেউ ট্রাক থেকে না কিনলে ই-কমার্স অথবা সরাসরি বিক্রয় কেন্দ্রের মাধ্যমেও পণ্য কিনতে পারবেন।

এদিকে লকডাউনের খবরে শনিবার (২ এপ্রিল) থেকে বাড়তি পণ্য কিনতে ক্রেতারা বাজারে হুমড়ি খেয়ে পড়ে। এতে রোববার সকাল হতেই রাজধানীর বাজারগুলোতে পেঁয়াজের দাম বেড়ে যায়। কেজিতে পেঁয়াজের দাম বেড়েছে পাঁচ টাকা।


আরও খবর



বিধানসভা নির্বাচন : আজ প্রাণ গেল ৫ জনের

প্রকাশিত:শনিবার ১০ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ এপ্রিল ২০২১ | ৪৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
কোচবিহারের শীতলকুচিতে এক কিশোরের মৃত্যু হয়েছে। জীবনে প্রথমবার ভোট দেয়ার জন্য কেন্দ্রে গিয়েছিলেন। নিয়ম মেনে ভোট দিতে লাইনে দাঁড়াতে গিয়ে হামলায় প্রাণ যায় আনন্দ বর্মণ নামের এক তরুণের

শনিবার (১০ এপ্রিল) সকালে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভার চতুর্থ দফার নির্বাচনের ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে। হামলা-সংঘর্ষের মধ্য দিয়েই শুরু হয়েছে ভোট গ্রহণ। নির্বাচনে হামলা-সহিংসতায় এ পর্যন্ত এক তরুণসহ মোট পাঁচ জন নিহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। ভারতের উত্তরবঙ্গে কাঠগড়ায় কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানদের গুলিতে চারজন নিহত হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। সিআরপিএফের গুলিতেই মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। এছাড়া জোড়পাটকিতে গুলির ঘটনায় আরও চার জন আহত হয়েছেন।

এছাড়াও কোচবিহারের শীতলকুচিতে এক কিশোরের মৃত্যু হয়েছে। জীবনে প্রথমবার ভোট দেয়ার জন্য কেন্দ্রে গিয়েছিলেন। নিয়ম মেনে ভোট দিতে লাইনে দাঁড়াতে গিয়ে হামলায় প্রাণ যায় আনন্দ বর্মণ নামের এক তরুণের। ঘটনাটি ঘটেছে কোচবিহারের শীতলকুচিতে। শনিবার আনন্দবাজার পত্রিকার এক প্রতিবেদন থেকে নিশ্চিত হওয়া গেছে এ বিষয়ে।

এদিকে প্রতিবেদনে তরুণের পরিবারের অভিযোগ তুলে ধরা হয়েছে। বলা হয়েছে, এই হামলা তৃণমূলের সন্ত্রাসীরা চালিয়েছে। স্থানীয় তৃণমূলের নেতাকর্মীরা এই হামলার অভিযোগ অস্বীকার করেছে। তবে এ ঘটনায় একজনকে আটক করেছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী পুলিশ সদস্যরা।

নিহত তরুণ আনন্দ বর্মণ ও তার পরিবারের সদস্যরা বিজেপির সমর্থক বলে জানা গেছে। আনন্দ বর্মণের চাচাতো ভাই জানিয়েছেন, তারা পাঠানটুলি শালবাড়ির ২৮৫ নম্বর কেন্দ্রে ভোট দিতে গিয়েছিলেন। ভোটের লাইনে দাঁড়ানোর কিছুক্ষণ পরই হঠাৎ করে তৃণর্মূল-বিজেপি সমর্থকদের মধ্যে ঝামেলা বাধে। এসময় দুপক্ষই এলাপাতাড়ি গুলি ছুড়ে।

এ ঘটনায় সকল ভোটাররা আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। সকলেই প্রাণ বাঁচাতে ছুটতে শুরু করেন। এমন সময় আনন্দের পিঠে গুলি লাগে। আহত অবস্থায় তাকে হাসপাতালে পাঠানো হলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় নিহত আনন্দের পরিবার থেকে তৃণমূল সমর্থিত সন্ত্রাসীদের দায়ি করছেন।


আরও খবর

মিয়ানমারে সেনা অভিযানে নিহত ৮২

রবিবার ১১ এপ্রিল ২০২১




ইসলাম ধর্ম সহিংসতায় বিশ্বাস করে না: মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ৩০ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১০ এপ্রিল ২০২১ | ৬৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
যারা মুক্তিযুদ্ধের বাংলাদেশ পছন্দ করে না, শান্তির বাংলাদেশ পছন্দ করে না, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ পছন্দ করে না, অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ পছন্দ করে না। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের

স্বাধীনতাবিরোধী প্রেতাত্বাদের এই বাংলাদেশে উত্থান ঘটতে দেওয়া হবে না বলে মন্তব্য করেছেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

মঙ্গলবার (৩০ মার্চ) দুপুরে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষ্যে ঢাকার গেন্ডারিয়ায় মিল ব্যারাক নৌ জেটিতে বাংলাদেশ আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটি আয়োজিত নৌ র‌্যালি, ২০২১ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

এসময় তিনি বলেন, “’৭১ এর রাজাকাররা কেউ হেফাজত নামে, কেউ নেজামে ইসলাম নামে, কেউ মুসলীম লীগ নামে নতুন করে দেশে অস্থিতিশীলতা সৃষ্টি করছে। ইসলাম ধর্ম সহিংসতায় বিশ্বাস করে না, সন্ত্রাসকে পছন্দ করে না, জঙ্গীবাদে বিশ্বাস করে না। মহানবী রাসুলুল্লাহ (সা.) ধর্ম নিয়ে বাড়াবাড়ি করতে নিষেধ করেছেন। কারো উপর জুলুম না করতে বলেছেন, ফেৎনা-ফেসাদ সৃষ্টি না করার জন্য বলেছেন। তিনি বলেছেন এগুলো যুদ্ধের চেয়ে বড় অপরাধ। কিন্তু ইসলামের নামধারী কিছু উচ্ছৃঙ্খল, সাম্প্রদায়িক শক্তি বাংলাদেশকে নতুন করে অস্থিতিশীল অবস্থায় নিয়ে যেতে চাইছে।

এ প্রসঙ্গে মন্ত্রী আরো বলেন, দেশ যখন শান্তিতে আছে, মানুষের যখন অভাব-অনটন নেই, অন্ন, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, চিকিৎসার সব সুযোগ যখন মিলছে, এটা একটা শ্রেণির লোকদের ভালো লাগছে না। এরা হলো মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তি। ওরা মারা যায়নি। ওদের প্রেতাত্বারা বেঁচে আছে। ওদের সন্তানরা এদেশে এখনও বেঁচে আছে। যারা মুক্তিযুদ্ধের বাংলাদেশ পছন্দ করে না, শান্তির বাংলাদেশ পছন্দ করে না, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ পছন্দ করে না, অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ পছন্দ করে না। শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের যে অপ্রতিরোধ্য গতি এটা ওদের ভালো লাগছে না। এজন্য বেগম খালেদা জিয়া নিজ বাড়িতে থেকেও অকৃতজ্ঞের মতো মির্জা ফখরুল ও কয়েকজনকে দিয়ে দেশের পরিবেশ অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করছেন।

শ ম রেজাউল করিম আরো বলেন, এ সময়ে একজন মানুষও না খেয়ে নেই, বিবস্ত্র অবস্থায় নেই, টাকার অভাবে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যেতে পারে না এমন অবস্থায় নেই। বাংলাদেশে অন্ন, বস্ত্র, বাসস্থান, চিকিৎসা ও শিক্ষায় অভাবনীয় উন্নতি হয়েছে। বর্তমানে ইলিশ অহরণে বাংলাদেশ পৃথিবীর সেরা অবস্থানে রয়েছে। মিঠা পানির মাছ উৎপাদনে তৃতীয় অবস্থান, স্বাদু পানির মাছ উৎপাদন বৃদ্ধিতে দ্বিতীয় অবস্থান এবং চাষের মাছ উৎপাদনে পঞ্চম অবস্থানে থেকে সারাবিশ্বে মাছ উৎপাদনে আমরা আমূল পরিবর্তন আনতে পেরেছি। এক্ষেত্রে মৎস্যজীবীদের বড় ভূমিকা রয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মৎস্য খাতকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়েছেন। তিনি চান ভাতে-মাছে বাঙালি সংস্কৃতির মাছ যেন বিলুপ্ত হয়ে না যায়। মাছের সংকট যেন না হয়। মাছের মাধ্যমে মানুষের পুষ্টি ও আমিষের চাহিদা যেন মেটানো যায়। মাছ রপ্তানি করে যেন আমরা বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করতে পারি, মৎস্য চাষের মাধ্যমে যেন বেকারদের বেকারত্ব দূর করা যায়, তারা যেন উদ্যোক্তা হতে পারে। সে জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বড় বড় প্রকল্প গ্রহণ করেছেন। মৎস্য চাষ এখন গর্বের বিষয়। এটি এখন অর্থ-বিত্তের সুযোগ করে দিচ্ছে।

বঙ্গবন্ধুর আদর্শ, শেখ হাসিনার নেতৃত্ব ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার সমালোচনা যেখানেই হবে সেখানে প্রতিরোধ গড়ে তোলার জন্য মৎস্যজীবী লীগের প্রতিটি নেতা-কর্মীদের এসময় আহ্বান জানান মন্ত্রী। 

বাংলাদেশ আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগের সভাপতি মোঃ সায়ীদুর রহমানের সভাপতিত্বে সংগঠনটির কার্যকরী সভাপতি সাইফুল ইসলাম মানিক, সাধারণ সম্পাদক লায়ন শেখ আজগর নস্করসহ ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ ও বিভিন্ন জেলা-উপজেলা ও মহানগর কমিটির নেতৃবৃন্দ এসময় উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



দুই ম্যাচে নিষিদ্ধ হলেন নেইমার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৮ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ এপ্রিল ২০২১ | ৬০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

গত শনিবার লিলের বিপক্ষে ম্যাচের শেষ মুহূর্তে লাল কার্ড দেখে ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড নেইমার। যে কারণে ফ্রেঞ্চ লিগ ওয়ানে দুই ম্যাচ নিষিদ্ধ হয়েছেন পিএসজির এই তারকা খেলোয়াড়। বুধবার এ খবর নিশ্চিত করেছে ফ্রেঞ্চ প্রফেশনাল লিগের (এলএফপি) ডিসিপ্লিনারি কমিশন।

লিলে'র বিপক্ষে ম্যাচের ৮৯ মিনিটে প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডার থিয়াগো দিয়ালোকে ধাক্কা দেন নেইমার। যে কারণে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছাড়তে হয় তাকে। নেইমারের সঙ্গে লাল কার্ড দেখানো হয় দিয়ালোকয়েও। দিওলোর লাল কার্ড দেখার কারণ, ধাক্কা খেয়ে নেইমারকে গালি দেয়া।

দুই লাল কার্ড দেখলে এক ম্যাচ নিষিদ্ধ করার নিয়ম থাকলেও এলএফপি তিন ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা করে নেইমারকে। পরে অবশ্য এক ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা উঠিয়ে দেয়া হয়। নেইমারের মতো দুই ম্যাচ নিষিদ্ধ হয়েছেন দিয়ালোকেও।

নিউজ ট্যাগ: নেইমার

আরও খবর



শিক্ষার প্রতিষ্ঠান খোলার তারিখ পেছাতে পারে : শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত:শুক্রবার ১২ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ এপ্রিল ২০২১ | ৭১০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

করোনার সংক্রমণ বাড়তে থাকলে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার তারিখ পেছানো হতে পারে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। গত কয়েকদিন ধরে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে থাকায় শুক্রবার শিক্ষামন্ত্রী এ তথ্য জানান।

দেশে টানা তৃতীয় দিনের মত হাজারের বেশি করোনার নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে। আজ দৈনিক শনাক্তের হার ৬ শতাংশ ছাড়িয়ে গেছে। দৈনিক শনাক্তের হার গত ৫ জানুয়ারি ছিল ৬ দশমিক ৮৫ শতাংশ। এরপর কমতে কমতে তা ৩ শতাংশের নিচেও নেমেছিল। তবে মার্চের শুরু থেকে করোনা শনাক্তের হার বাড়ছে।

বাংলাদেশে গত ৮ মার্চ প্রথম করোনা ভাইরাসের রোগী শনাক্ত হলেও প্রথম মৃত্যুর খবর আসে ১৮ মার্চ। দিন দিন করোনা রোগী শনাক্ত ও মৃতের সংখ্যা বাড়ায় নড়েচড়ে বসে সরকার। ভাইরাসটি যেন ছড়িয়ে পড়তে না পারে সেজন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ সব সরকারি-বেসরকারি অফিস বন্ধ ঘোষণা করা হয়। করোনার বর্তমান পরিস্থিতির মধ্যেই ৩১ মে থেকে দেশের সরকারি-বেসরকারি অফিস খুলে দেওয়া হয়েছে। তবে বেশ কয়েক ধাপ বাড়ানোর পর আগামী ৩০ মার্চ স্কুল-কলেজ খুলে দেওয়ার কথা ছিল।


আরও খবর



সন্ধ্যা ৭টার পর থকে খুলনায় বাজার-দোকান বন্ধ

প্রকাশিত:শনিবার ০৩ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৯ এপ্রিল ২০২১ | ৭২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

খুলনায় সন্ধ্যা ৭টার পর বাজার ও দোকান বন্ধ রাখার ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে পর্যটন কেন্দ্র, পার্ক, বিনোদন কেন্দ্র বন্ধ রাখাসহ ৫ দফা নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। ক্লিনিক, হাসপাতাল ও ওষুধের দোকান সার্বক্ষণিক খোলা থাকবে। 

শনিবার (০৩ এপ্রিল) খুলনা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন এ সংক্রান্ত এক গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন।

তিনি উল্লেখ করেন, করোনাভাইরাস সংক্রমণের বিদ্যমান পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে জনসমাগম, সামাজিক, রাজনৈতিক অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ নিয়ন্ত্রণ, যান চলাচল, পর্যটন, বিনোদন কেন্দ্রে জনসাধারণ নিয়ন্ত্রণের লক্ষে বিভিন্ন সিদ্ধান্ত গ্রহণ ও এই সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। সেই সিদ্ধান্ত কার্যকরণের লক্ষ্যে খুলনা জেলার করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ও প্রতিরোধসহ সার্বিক ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় বিভিন্ন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আগামী ৫ এপ্রিল থেকে পরবর্তী নির্দশনা না দেওয়া পর্যন্ত জারি করা এ আদেশ কার্যকর থাকবে। আদেশ অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আরও খবর

মাইক্রোবাসের ধাক্কায় কৃষক নিহত, আহত ২

বৃহস্পতিবার ০৮ এপ্রিল ২০২১