Logo
শিরোনাম

পূজার খাবার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০22 | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২ | ৬৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

আর কদিন পরেই শারদীয়া দুর্গাপূজা। ইতিমধ্যে শরতের বাতাসে বইতে শুরু করেছে পূজার হাওয়া। ঢাকের বাদ্য এখনো শোনা যাচ্ছে না বটে, কিন্তু কাশফুলের দ্রুত বর্ধিত ধূসররঙা কেশর জানিয়ে দিচ্ছে, ঢাক বাজতে দেরি নেই। দেবী দুর্গা বাঙালি হিন্দুর কাছে যতটা না দেবী, তার চেয়ে বেশি ঘরের মেয়ে, যিনি বছরান্তে বাপের বাড়ি আসেন বেড়াতে। ফলে এ পূজায় লৌকিকতা বেশি। সন্তান বাপের বাড়ি এলে আর যা-ই হোক, খাওয়াদাওয়ার কমতি হয় না। এ জন্যই হয়তো, দুর্গাপূজায় খাবারের এত আয়োজন।

ষষ্ঠী থেকে দশমী, প্রতিদিনই খাবার হওয়া চাই জবরদস্ত! দুধ, দই, মুড়ি, মুড়কি, মিষ্টি, মাছ, মাংস, লুচি, লাবড়াসবই থাকবে পূজার খাবারের তালিকায়। তবে নিরামিষ খাবার বেশি থাকবে ষষ্ঠী থেকে নবমী পর্যন্ত। প্রতিমা বিসর্জনের পর হবে আমিষ খাওয়া। আবার এসবের মধ্যে অনেক পরিবারে আছে অনেক রকম নিয়ম। কোনো পরিবার পূজার পুরো সময়ই নিরামিষ খাবে আবার কোনো পরিবার প্রতিমা বিসর্জনের পর আমিষ খাবে। যেমন জানা যায়, বিক্রমপুরের জমিদার যদুনাথ রায়ের পরিবারে পূজার সময় প্রতিদিন খাওয়া হতো ইলিশ মাছ। এটা ছিল তাঁদের পারিবারিক প্রথা। ষষ্ঠী থেকে নবমী এ সময় নিরামিষ কী খাবেন, তার কোনো বাঁধাধরা নিয়ম নেই। তবে সাধারণত এ সময়টাতে খাওয়া হয় নিরামিষ খিচুড়ি, লাবড়া বা ঘন্ট-জাতীয় সবজি, বড়া, পাঁপড় ইত্যাদি ভাজা আর ডাল। এ সময় অনেক মন্দিরে বিশেষ ধরনের ভোগের আয়োজন করা হয় বলে নিরামিষের আয়োজন বেশি থাকে।

রসুন-পেঁয়াজ না দেওয়া নিরামিষ ডালের আলাদা খ্যাতি আছে স্বাদকাহনেবিশেষ করে বুট বা ছোলার ডাল, মুগ ও অড়হর ডালের। পাঁচফোড়নের বাগার দিয়ে অল্প মসলা আর পেঁয়াজ-রসুন ছাড়া রান্না করা ঘন্ট বা লাবড়া ভাত হোক বা খিচুড়ি, যেকোনো খাবারের স্বাদ বাড়িয়ে দেয় অনায়াসে। এবার আসা যাক মিষ্টির কথায়। পূজার কয়েক দিন সকালের নাশতায় হোক রসগোল্লা বা জিলাপি কিংবা সন্দেশ, কোনো না কোনো মিষ্টি থাকবেই। মিষ্টি আর দই ছাড়া পূজার খাবার কল্পনা করা অসম্ভব! দইয়ের কথা যখন এলই বলে রাখি, পূজার এই সময়টাতে যেকোনো সময় দই খাওয়া যায়। তবে সম্ভবত দশমীর সকাল হলো দই-মিষ্টি খাওয়ার আদর্শ।

দশমী মানেই বিসর্জনের বিষণ্ন সুর। দেবীদুর্গা ফিরে যাবে কৈলাসে, নিজের সংসারে। বছরের শেষ খাবারটা ভালো হওয়া চাই। এ জন্যই মনে হয় বিভিন্ন জায়গায় দশমীর খাবার নিয়ে বিভিন্ন ধরনের প্রথা ও মিথ প্রচলিত আছে। যেমন বরিশাল বা পাবনা অঞ্চলে দশমীর দিন খাওয়া হয় ইলিশ মাছ। সম্পন্ন গৃহস্থদের বাড়িতে আবার আসে জোড়া ইলিশ। উত্তরবঙ্গে খাওয়া হয় মাংস। মাছ হোক বা মাংসদশমীর দুপুরে আয়োজন হবে নিরামিষ এবং স্বাদে-গন্ধে ভরপুর। সকাল থেকে খাওয়া হবে দই, চিড়া, মুড়কি ও মিষ্টি। দুপুরে মাছ কিংবা মাংস দিয়ে জমিয়ে সুগন্ধি চালের ভাত।

নিউজ ট্যাগ: দুর্গাপূজা

আরও খবর

৭ অক্টোবর: আজকের রাশিফল

শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২




নেপালে ভূমিধসে ১৪ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ১০

প্রকাশিত:শনিবার ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ | ৫১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

নেপালের পশ্চিমাঞ্চলে সৃষ্ট ভূমিধসে অন্তত ১৪ জন নিহত ও সাতজন আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় নিখোঁজ রয়েছেন আরও ১০ জন। খবর রয়টার্সের।

রাজধানী কাঠমান্ডু থেকে প্রায় সাড়ে ৪০০ কিলোমিটার পশ্চিমে আচ্ছাম জেলায় স্থানীয় সময় শনিবার এ দুর্ঘটনা ঘটে। তুমুল বৃষ্টিপাতের কারণে এ ভূমিধসের ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।

খবরে বলা হয়, এ ভূমিধসে পাঁচটি ঘর মাটিচাপা পড়েছে। নিখোঁজ ব্যক্তিদের সন্ধানে উদ্ধারকর্মীরা তল্লাশি চালাচ্ছেন। উদ্ধারকর্মীরা ধ্বংসাবশেষ সরিয়ে আহত ও মৃতদের উদ্ধার করেছেন বলে জানিয়েছেন পুলিশের মুখপাত্র ধন বাহাদুর কার্কি।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, স্থানীয় গণমাধ্যমের ফুটেজে নিখোঁজদের সন্ধানে উদ্ধারকর্মীদের মরিয়া তৎপরতা চালাতে দেখা গেছে। নিখোঁজ ১০ জন ধ্বংসাবশেষের নিচে আটকা পড়েছেন বলে মনে করছেন কর্মকর্তারা।

কর্মকর্তারা জানান, উদ্ধার হওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে আহতদের দ্রুততার সঙ্গে কাছাকাছি একটি হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

রয়টার্সের ওই সংবাদে বলা হয়, জুন থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলা বর্ষাকালে নেপালের পার্বত্যাঞ্চলে প্রায়ই আকস্মিক বন্যা ও ভূমিধস দেখা যায়।

সরকারি হিসাব অনুযায়ী, চলতি বছর এখন পর্যন্ত আকস্মিক বন্যা ও ভূমিধসে দেশটিতে অন্তত ৪৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়া নিখোঁজ রয়েছেন ১২ জন।


আরও খবর

‘হাসি’ মানুষের সবচেয়ে ভালো ওষুধ

শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২




বিশ্বকাপের জন্য স্কোয়াড ঘোষণা করলো বাংলাদেশ

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২ | ৫৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

নানান জল্পনা-কল্পনার পর অবশেষে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য স্কোয়াড ঘোষণা করলো বাংলাদেশ দল। বুধবার দুপুরে মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামের সংবাদ সম্মেলন কক্ষে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে ঘোষণা করা হয়েছে আসন্ন বিশ্বকাপের দল।

গত বেশ কয়েকদিন ধরে বিশ্বকাপ দলের আলোচনায় হট টপিক ছিলেন সাবেক অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। শেষপর্যন্ত তাকে ছাড়াই ঘোষণা করা হয়েছে বিশ্বকাপের দল। অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের ডেপুটি হিসেবে বেছে নেওয়া হয়েছে নুরুল হাসান সোহানকে।

সবশেষ এশিয়া কাপের দল থেকে বাদ পড়েছেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, এনামুল হক বিজয়, নাইম শেখ, শেখ মেহেদি হাসান ও পারভেজ হোসেন ইমন। অবসর নেওয়ায় দলে নেই মুশফিকুর রহিম। তাদের জায়গায় এসেছেন লিটন দাস, ইয়াসির আলি রাব্বি, নুরুল হাসান সোহান, নাজমুল হোসেন শান্ত ও হাসান মাহমুদ।

মূল দল থেকে বাদ পড়লেও বিশ্বকাপে দলের সঙ্গে রিজার্ভ হিসেবে থাকবেন শেখ মেহেদি হাসান। তিনি ছাড়াও রিজার্ভ হিসেবে নেওয়া হয়েছে লেগস্পিনার রিশাদ হোসেন, বাঁহাতি পেসার শরিফুল ইসলাম ও বাঁহাতি ড্যাশিং ওপেনার সৌম্য সরকারকে। বিশ্বকাপে যে কারও ইনজুরিতে এ চারজনের মধ্য থেকে বদলি খেলোয়াড় নেওয়া যাবে।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশের স্কোয়াড

সাকিব আল হাসান (অধিনায়ক), লিটন কুমার দাস, আফিফ হোসেন ধ্রুব, সাব্বির রহমান, মেহেদি হাসান মিরাজ, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, নুরুল হাসান সোহান (সহ-অধিনায়ক), নাসুম আহমেদ, মোস্তাফিজুর রহমান, তাসকিন আহমেদ, ইয়াসির আলি চৌধুরী, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, এবাদত হোসেন চৌধুরী, নাজমুল হোসেন শান্ত ও হাসান মাহমুদ।

রিজার্ভ: শরিফুল ইসলাম, রিশাদ হোসেন, শেখ মেহেদি হাসান ও সৌম্য সরকার।


আরও খবর

হার দিয়ে সিরিজ শুরু বাংলাদেশের

শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২

১৬৮ রানের লক্ষ্য পেল বাংলাদেশ

শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২




শি জিনপিং কি আসলেই গৃহবন্দী?

প্রকাশিত:রবিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ | ৫০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংকে গৃহবন্দী করা হয়েছে বলে ইন্টারনেটে একটি খবর ব্যাপকভাবে ছড়িয়েছে। চীনা অনেক সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ব্যবহারকারী বলেছেন, চীনের কমিউনিস্ট পার্টির জ্যেষ্ঠ নেতারা পিপলস লিবারেশন আর্মির (পিএলএ) প্রধানের পদ থেকে শি জিনপিংকে সরিয়ে দেওয়ার পর তাকে গৃহবন্দী করা হয়েছে। এমনকি দেশটির রাজধানী বেইজিংও এখন সামরিক বাহিনীর নিয়ন্ত্রণে রয়েছে বলে অনেক চীনা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ব্যবহারকারী দাবি করেছেন।

নিউজ হাইল্যান্ড ভিশন নামের একটি সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, চীনের সাবেক প্রেসিডেন্ট হু জিনাতাও, সাবেক প্রধানমন্ত্রী ওয়েন জিয়াবাও চীনা কমিউনিস্ট পার্টির স্টান্ডিং কমিটির সাবেক সদস্য সং পিংকে প্ররোচনা দিয়েছেন এবং তিনি দেশটির সেন্ট্রাল গার্ড ব্যুরোর নিয়ন্ত্রণ নিয়েছেন। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, উজবেকিস্তানের সমরখন্দে সাংহাই সহযোগিতা সংস্থার (এসসিও) সম্মেলন শেষে দেশে ফেরার পর গত ১৬ সেপ্টেম্বর প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংকে বিমানবন্দরে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বর্তমানে তাকে গৃহবন্দী করে রাখা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তবে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংকে গ্রেপ্তার কিংবা গৃহবন্দী করে রাখার এই খবরের সত্যতা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের বিভিন্ন পোস্ট ও স্বল্প পরিচিত অনেক অনলাইন সংবাদমাধ্যমের এই খবরকে গুজব বলে মনে হচ্ছে।

চীনের সর্বশেষ খবর হচ্ছে, দেশটির সাবেক জননিরাপত্তা উপমন্ত্রী সান লিজুনকে একটি স্থগিত মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়েছে। জিলিন প্রদেশের চ্যাংচুন শহরের একটি আদালতের দেওয়া এই সাজা দুই বছর পর যাবজ্জীবন দণ্ডে রূপান্তরিত হবে। এতে প্যারোলে মুক্তির কোনও সম্ভাবনা নেই। চীনের সেন্ট্রাল টেলিভিশনের খবরে বলা হয়েছে, ৬৪৬ মিলিয়ন ইউয়ান ঘুষ নেওয়ার দায়ে দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় সান লিজুনকে এই সাজা দেওয়া হয়েছে। অবৈধ অস্ত্র নিজের কাছে রাখার দায়েও তাকে অভিযুক্ত করা হয়েছে।

মার্কিন সংবাদমাধ্যম ব্লুমবার্গের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আগামী ১৬ অক্টোবর চীনের কমিউনিস্ট পার্টির জাতীয় কংগ্রেস অনুষ্ঠিত হবে। কংগ্রেসের মাধ্যমে তিনি তৃতীয় মেয়াদে আগামী পাঁচ বছরের জন্য দেশটির ক্ষমতায় আসতে যাচ্ছেন বলে আশা করা হচ্ছে। এই কংগ্রেসের আগে পার্টির ভিন্ন মতাবলম্বী জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তাদের অপসারণ এবং তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ শি জিনপিংয়ের ইচ্ছার গুরুত্ব তুলে ধরছে।

প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংকে গ্রেপ্তার এবং গৃহবন্দী করার ব্যাপারে চীনের রাষ্ট্রায়ত্ত্ব সংবাদমাধ্যম গ্লোবাল টাইমসের ওয়েবসাইটেও কোনও সংবাদ পাওয়া যায়নি। এছাড়া বিবিসি, সিএনএন, আলজাজিরাসহ আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমেও এ ধরনের কোনও খবর পাওয়া যায়নি। এই পরিস্থিতিতে আমরা নিশ্চিত করতে পারি, চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংকে গৃহবন্দী করার খবরটি গুজব এবং অতিরঞ্জিত


আরও খবর

‘হাসি’ মানুষের সবচেয়ে ভালো ওষুধ

শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২




ইনস্টায় ৩০ লাখ অনুসারী, উচ্ছ্বসিত পূর্ণিমা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২২ সেপ্টেম্বর 20২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২ | ৫৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ঢাকায় সিনেমার জনপ্রিয় নায়িকা দিলারা হানিফ পূর্ণিমা ইনস্টাগ্রামে বেশ সরব। ২০১৫ সাল থেকে এই মাধ্যমটিতে অ্যাকাউন্ড রয়েছে তার। প্রায় দুই যুগের দীর্ঘ ক্যারিয়ারে শতাধিক দর্শকনন্দিত সিনেমা উপহার দিয়েছেন তিনি। বড়পর্দার পাশাপাশি ছোটপর্দায় চমৎকার করেছেন তিনি।

লাস্যময়ী এ অভিনেত্রী সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ সক্রিয়। কয়েক দিন আগেই ইনস্টাগ্রামে অনুসারীর সংখ্যা ৩০ লাখ পূর্ণ হয়েছে তার। এ জন্য শুভাকাঙ্ক্ষীদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন। বুধবার সকালে অভিনেত্রী ফেসবুকে ভেরিফায়েড পেজে মায়াবী হাসির ঝরঝরা কয়েকটি ছবি পোস্ট করেছেন।

ছবিগুলো দেখে বোঝা যাচ্ছে, কোনো সমুদ্রসৈকতে বসে আছেন তিনি। পরনে কালো টি-শার্ট আর চোখে কালো চশমা। টি-শার্টের ওপরে বাদামি রঙ করা স্ট্রেট চুলগুলো মেলে দিয়েছেন। আর হালকা গোলাপি লিপস্টিকে মাখা ঠোঁটের মুচকি হাসিতে মুগ্ধতা ছড়াচ্ছেন এ নায়িকা। অভিনেত্রী ছবিগুলো পোস্ট করে ক্যাপশনে লিখেছেন জীবন একটি অলৌকিক। আমরা প্রতিটি শ্বাস উপহার হিসেবে গ্রহণ করি।


আরও খবর

দুরন্তপনার ৫ বছর

বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২




বিশ্বজুড়ে বেড়েছে মৃত্যু, শনাক্ত আরও পৌনে ৪ লাখ

প্রকাশিত:বুধবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৭ অক্টোবর ২০২২ | ৩৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চলমান করোনা মহামারিতে বিশ্বজুড়ে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা আরও বেড়েছে। একইসঙ্গে আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যাও। গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন প্রায় সাড়ে নয়শো মানুষ। একই সময়ে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্তের সংখ্যা পৌঁছেছে প্রায় পৌনে চার লাখে।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বজুড়ে সবচেয়ে বেশি সংক্রমণের ঘটনা ঘটেছে ফ্রান্সে। অন্যদিকে দৈনিক প্রাণহানির শীর্ষে উঠে এসেছে যুক্তরাষ্ট্র। প্রাণহানির তালিকায় এরপরই রয়েছে রাশিয়া, ব্রাজিল, জাপান, ইতালি ও ফ্রান্স। এতে বিশ্বব্যাপী করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৬১ কোটি ৭৯ লাখের ঘর। অন্যদিকে মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৬৫ লাখ ৩৩ হাজার।

বুধবার (২১ সেপ্টেম্বর) সকালে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত, মৃত্যু ও সুস্থতার হিসাব রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে পাওয়া সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৯৩৭ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েছে প্রায় একশো জন। এতে বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা পৌঁছেছে ৬৫ লাখ ৩৩ হাজার ৬ জনে।

একই সময়ের মধ্যে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৭০ হাজার ৭৫৩ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়েছে ৬০ হাজারের বেশি। এতে মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত ভাইরাসে আক্রান্ত মোট রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬১ কোটি ৭৯ লাখ ৩১ হাজার ৫৮ জনে।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর ২০২০ সালের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে বৈশ্বিক মহামারি’ হিসেবে ঘোষণা করে। এর আগে একই বছরের ২০ জানুয়ারি বিশ্বজুড়ে জরুরি পরিস্থিতি ঘোষণা করে সংস্থাটি।

নিউজ ট্যাগ: করোনাভাইরাস

আরও খবর

করোনায় একজনের মৃত্যু, কমেছে শনাক্ত

বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২