Logo
শিরোনাম

রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকে ডিএমডি পদে বড় রদবদল

প্রকাশিত:সোমবার ২১ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ | ৪৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

রাষ্ট্রায়ত্ত বিভিন্ন ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের ১৫ জন উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালককে (ডিএমডি) বদলি করা হয়েছে। সোমবার (২১ নভেম্বর) অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ এ বিষয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।

ডিএমডি পদে বদলি, রদবদল বা আগের পদে পুনর্বহাল (ইনসিটু) কর্মকর্তাদের মধ্যে বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংক মীর মোফাজ্জল হোসেনকে বদলি করে সোনালী ব্যাংকের পাঠানো হয়েছে। রূপালী ব্যাংকের ডিএমডি খান ইকবাল হোসেনকে বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকে বদলি করা হয়েছে। সোনালী ব্যাংকের সুভাষ চন্দ্র দাসকে একই ব্যাংকের ডিএমডি (ইনসিটু) রয়েছেন, জনতা ব্যাংকের মোহাম্মদ সাইফুল আলমকে রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক, জনতা ব্যাংকের দেলওয়ারা বেগমকে রূপালী ব্যাংকে, ইনভেস্টমেন্ট কর্পোরেশন অব বাংলাদেশের ডিএমডি (ইনসিটু) আবু তাহের মোহাম্মদ আহমেদুর রহমানকে পাঠানো হয়েছে একই ডিএমডি করা হয়েছে। 

প্রবাসী কল্যাণ ব্যাংক ডিএমডি (ইনসিটু) মো. জাহাঙ্গীর হোসেনকে একই ব্যাংকের ডিএমডি হয়েছেন। বেসিক ব্যাংকের খান ইকবাল হাসানকে পাঠানো হয়েছে পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকে, রূপালী ব্যাংকের ডিএমডি (ইনসিটু) কাজী মো. ওয়াহিদুল ইসলামকে সোনালী ব্যাংকের, রূপালী ব্যাংকের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক (ইনসিটু) মিস তাহমিনা আখতারকে দেওয়া হয়েছে একই ব্যাংকের ডিএমডি পদে। 

কর্মসংস্থান ব্যাংকের ডিএমডি (ইনসিটু) মিস মেহের সুলতানাকে কর্মসংস্থান ব্যাংকের ডিএমডি করা হয়েছে। রূপালী ব্যাংকের পারসুমা আলমকে সোনালী ব্যাংকে, বেসিক ব্যাংক ডিএমডি (ইনসিটু) মো. আবুল কালাম আজাদকে একই ব্যাংকের ডিএমডি করা হয়েছে, জনতা ব্যাংক ডিএমডি (ইনসিটু) শ্যামল কৃষ্ণ সাহা অগ্রণী ব্যাংকের ডিএমডি এবং রূপালী ব্যাংকের ডিএমডি (ইনসিটু) মো. গোলাম মরতুজাকে জনতা ব্যাংকের ডিএমডি পদে বদলি করা হয়েছে।

উপসচিব মীনাক্ষী বর্মনের সই করা এই বদলির প্রজ্ঞাপন আজ থেকেই কার্যকর হবে।


আরও খবর

আরেক দফা বাড়ল এলপিজির দাম

রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২




প্রশ্নফাঁসের চেষ্টা করলে ব্যবস্থা: শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ০৬ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ | ৫৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

কেউ প্রশ্নপত্র ফাঁসের গুজব ছড়ালে অথবা প্রশ্নফাঁসের চেষ্টা করলে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। আজ রোববার সরকারি বেগম বদরুন্নেসা মহিলা কলেজে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার্থীদের কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, গত পরীক্ষায় আমরা দেখেছিলাম বিভিন্ন জায়গায় প্রশ্নপত্র ফাঁস করার চেষ্টা করা হয়েছিল। কিন্তু তারা সফল হয়নি। প্রশ্নফাঁস বন্ধ করতে আমরা অভিনব কৌশল গ্রহণ ও কঠোর মনিটরিং করছি। এরপরও কেউ যদি গুজব ছড়ানো বা প্রশ্নফাঁসের চেষ্টা করে, তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দীপু মনি বলেন, কেন্দ্র ঘুরে দেখলাম বাইরে অভিভাবকদের অনেক ভিড়। যারা আগে এসেছেন তারা সন্তানকে ভেতরে ঢুকিয়ে দিয়ে বাইরে অপেক্ষা করছেন। কিন্তু তাদের ভিড়ের কারণে বাকি পরীক্ষার্থীদের কেন্দ্রে প্রবেশ করতে সমস্যা হচ্ছে।

সন্তানকে পৌঁছে দিয়ে সঙ্গে সঙ্গে অভিভাবকদের কেন্দ্র ত্যাগ করার অনুরোধ জানিয়ে তিনি বলেন,  তাহলে আর কোনো পরীক্ষার্থীকে কেন্দ্রে আসতে সমস্যা হবে না।

আগামী বছরের পরীক্ষা এগিয়ে আনা হবে জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, এবার আমরা জুলাই-আগস্টে পরীক্ষা নিয়ে আসতে চেষ্টা করেছিলাম। কিন্তু বন্যার কারণে তা হয়নি। এরপরের বছর আরও এগিয়ে আনার চেষ্টা করব। আর আগামীতে যদি কোনো অঞ্চলে প্রাকৃতিক দুর্যোগ হয়, তাহলে সে বোর্ডের পরীক্ষা সাময়িক বন্ধ রেখে অন্যগুলোর নেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, বাংলা প্রথম পত্র পরীক্ষার মধ্য দিয়ে রোববার সারাদেশে ২০২২ সালের এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষা শুরু হয়েছে। এ বছর দেশের দুই হাজার ৬৪৯টি কেন্দ্রে ১২ লাখ তিন হাজার ৪০৭ পরীক্ষার্থী অংশ নিচ্ছেন। এদের মধ্যে ছয় লাখ ২২ হাজার ৭৯৬ ছাত্র এবং পাঁচ লাখ ৮০ হাজার ৬১১ জন ছাত্রী রয়েছেন।

এক বছরের ব্যবধানে উচ্চ মাধ্যমিকে পরীক্ষার্থী কমেছে প্রায় ২ লাখ। দেশের ১১টি শিক্ষা বোর্ডে গত বছর মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৩ লাখ ৯৯ হাজার ৬৯০। এ হিসাবে পরীক্ষার্থী কমেছে ১ লাখ ৯৬ হাজার ২৮৩ জন।


আরও খবর



পায়ের চোট সারাতে গিয়ে আরও অসুস্থ নেইমার

প্রকাশিত:বুধবার ৩০ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ | ১৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিশ্বকাপের প্রি-কোয়ার্টার ফাইনাল নিশ্চিত হয়ে গিয়েছে ব্রাজিলের। এক ম্যাচ বাকি থাকতেই শেষ ষোলোয় পৌঁছে গিয়েছে তারা। কিন্তু তার মধ্যেই এক নতুন চিন্তা ব্রাজিল শিবিরে। পায়ের চোট সারানোর মাঝে আরও অসুস্থ হয়ে পড়েছেন নেইমার। জ্বর হয়েছে তাঁর। কবে তিনি সুস্থ হতে পারবেন তা এখনও নিশ্চিত নয়।

নেমারের জ্বরের কথা জানিয়েছেন তাঁর সতীর্থ ভিনিসিয়াস জুনিয়র। তিনি বলেছেন, নেইমারের জ্বর হয়েছে। ও হোটেলের ঘরেই আছে। আমরা প্রার্থনা করছি যাতে ও দ্রুত সুস্থ হয়ে ওঠে। জানা গিয়েছে, জ্বরের পাশাপাশি মাথা যন্ত্রণাও রয়েছে ব্রাজিলের ফুটবলারের। চিকিৎসককে সে কথা জানিয়েছেন তিনি। নেইমার কবে সুস্থ হতে পারবেন সে ব্যাপারে এখনও পর্যন্ত কিছু বলতে পারেননি চিকিৎসকেরা।

সার্বিয়ার বিরুদ্ধে খেলা চলাকালীন ডান পায়ের গোড়ালিতে চোট পেয়েছিলেন নেইমার। ৮০ মিনিটের মাথায় তাঁকে তুলে নিয়েছিলেন ব্রাজিলের কোচ তিতে। পরে জানা গিয়েছিল, গুরুতর চোট পেয়েছেন নেইমার। গোড়ালি ফুলে গিয়েছে তাঁর। চোট সারিয়ে ফেরার অনেক চেষ্টা করছেন নেইমার। প্রায় সারা দিন দলের ফিজিয়োর সঙ্গে কাটাচ্ছেন তিনি।

সুইৎজারল্যান্ডের বিরুদ্ধে ম্যাচে দলে ছিলেন না নেইমার। দলের সঙ্গে মাঠেও আসেননি তিনি। জানা গিয়েছে, হোটেলের ঘরে নেমারের ফিজিয়োথেরাপির সেশন ছিল। তাই দলের সঙ্গে না যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। হোটেলের ঘরে বসেই খেলা দেখার সিদ্ধান্ত নেন তিনি। দলের তরফেও কোনও আপত্তি করা হয়নি। দলের প্রধান লক্ষ্য যত দ্রুত সম্ভব নেইমারকে সুস্থ করে তোলা। সে কারণেই চিকিৎসকরা দিন রাত খাটছেন। বিছানায় শুয়ে টেলিভিশনে ব্রাজিলের খেলা দেখেছেন নেইমার। সেই ছবি নিজের ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতেও দিয়েছেন তিনি।


আরও খবর

রোনালদোকে টপকে গেলেন মেসি

রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২




হিট-ফ্লপের বাইরের তারকা শাহরুখ

প্রকাশিত:রবিবার ০৬ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ | ৬৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

তিন বছর হলো পাঠানের কোনো খোঁজ নেই-এভাবেই শুরু হয় শাহরুখ খানের নতুন সিনেমা পাঠানের টিজার। পাঠান তিন বছর ধরে নিখোঁজ, তবে শাহরুখকে থিয়েটারে পাওয়া যাচ্ছে না প্রায় পাঁচ বছর। ২০১৮ সালে মুক্তি পাওয়া জিরোর পর ২০২৩ সালের জানুয়ারিতে আসছে পাঠান। মাঝখানে দীর্ঘ বিরতি। একাধিক সিনেমায় ক্যামিও করেছেন, হয়েছেন প্রশংসিত কিন্তু পুরনো শাহরুখ তো সেখানে নেই। লাভার বয় হোক বা ডন-কিং খানকে বলিউডে পাওয়া যাচ্ছে না। তবে শাহরুখ তো শাহরুখ। রীতিমতো একটা ব্র্যান্ড। তাই জওয়ান বা পাঠানের পোস্টার, টিজার এমনকি লুক আসতে না আসতে শুরু হয় তোলপাড়। সে ধারাবাহিকতায়ই ৫৭তম জন্মদিনে মুক্তি পেল পাঠানের টিজার। পাইপলাইনে আছে জওয়ান ও ডাঙ্কি।

‘‌শাহরুখের ক্যারিয়ার শেষ-এমন একটা কথা কয়েক বছর ধরে মিডিয়ায় খুব প্রচারিত। কেননা ১২ বছরে তার কোনো সিনেমা শাহরুখের ক্যালিবার অনুসারে না হয়েছে ‌ভালো সিনেমা, না ‌ব্যবসাসফল। পুরো ভারত যখন দক্ষিণী সিনেমার প্রশংসা করে মুখে ফেনা তুলে বলিউডের সৎকার করে ফেলছে, সে সময় শাহরুখের আসন্ন দুটো সিনেমা নিয়ে সেই দর্শকরাও আগ্রহী। এটা শাহরুখের স্টারডম নয়, তার প্রতি দর্শকের আশাবাদ। কেননা ৩০ বছরের ক্যারিয়ারে শাহরুখ খান বলিউড ও ভারতীয় সিনেমাকে যা দিয়েছেন, এমনকি বহির্বিশ্বে ভারতীয় সিনেমাকে যেভাবে প্রমোট করেছেন, তা বলিউড বা ভারতের অন্য কোনো সিনেমা স্টারের পক্ষে সম্ভব হয়নি। ভক্তদের কাছে তার আবেদন তো অন্য মাত্রার।

১২ বছর শাহরুখের কোনো ভালো সিনেমা আসেনি বলাটা ভুল। ডন টু সে হিসেবে খারাপ সিনেমা নয়। ব্যবসাও তুলনামূলক কম করেনি। রইসের প্রতি দর্শকের এক ধরনের আগ্রহ ছিল। সিনেমা হিসেবে ডিয়ার জিন্দেগি সময়োপযোগী। এর মধ্যেই শাহরুখ করেছিলেন ফ্যানের মতো নিরীক্ষাধর্মী সিনেমা, যা ওটিটি যুগের আগে এবং ওটিটি যুগেও পড়তি ক্যারিয়ার বাদে কোনো স্টার ধরার সাহস করতেন না। প্রশংসা পেলেও অবশ্য বক্স অফিসে সিনেমাটি খুব ভালো করেনি। জাব হ্যারি মেট সেজাল বা দিলওয়ালের মতো সিনেমা শাহরুখ কেন করলেন, তা অবশ্য অনেকেরই প্রশ্ন। বিগত দিনগুলোয় তার স্ক্রিপ্ট বাছাই ভুল ছিল বলে এক বাক্যে মন্তব্য করে থাকেন সবাই।

কিন্তু শাহরুখ নতুন কী করবেন? করার হয়তো অনেক কিছুই ছিল। কিন্তু শাহরুখ খান মূলত সময় থেকে এগিয়ে। অনেক কিছু তিনি আগেই করে ফেলেছেন। ২০১১ সালে তার করা রা. ওয়ান বক্স অফিস বা দর্শকের কাছে পাত্তা পায়নি। ২০২২ সালে এসে বিগ বাজেট সিনেমা আদিপুরুষের ভিএফএক্স দেখে দর্শকরা বলছেন রা. ওয়ান থেকে তাদের শেখা উচিত ছিল। বলিউডে যখন দক্ষিণী সিনেমার রিমেক চলছে, শাহরুখ তখন দক্ষিণ ভারতের যুক্ত গল্পে নির্মিত চেন্নাই এক্সপ্রেসে অভিনয় করেছিলেন। ফ্যানের মতো সিনেমা করেছেন তিনি। একজন সুপারস্টারের জন্য এ রকম আউট অব দ্য বক্স সিনেমায় (ফ্যানডম নিয়ে নির্মিত) অভিনয় করাতে ‌রিস্ক থাকে। কিন্তু রিস্ক কবে নেননি শাহরুখ? নব্বইয়ের দশকে শাহরুখ যখন লাভার বয় হিসেবে স্বীকৃত, সে সময় তিনি ডর, আনজামের মতো সিনেমায় খল চরিত্রে অভিনয় করেছেন। সুপারস্টার হয়েছেন বহু আগে, তার পরও ক্যামিওতে তাকে দেখা গিয়েছে বারবার।

সিনেমাকে বর্তমানে ব্যবসার মানদণ্ডে মাপা হয়। কোনো কোনো ক্ষেত্রে গল্প বা স্ক্রিপ্টের আলোচনা আনেন অনেকে কিন্তু আদতে হলিউড বা বলিউডে আয়টাই মূল। সেদিক থেকে হিসাব করলে বহু ব্যবসাসফল সিনেমা আছে শাহরুখের। কিন্তু তার চেয়ে বেশি যা আছে, তা হলো অভিনয়গুণ। অবশ্য বলিউডে নিজের শতভাগ গুণ তিনি দেখাতে পেরেছেন এমন নয়, কিন্তু যা দিয়েছেন, তাও কম নয়। বেশ কয়েকটা প্রজন্মকে রোম্যান্স শিখিয়েছেন শাহরুখ। অ্যাকশনেও কম যাননি। ভেবেছেন ভিন্ন ধারায়। এমনকি তৈরি করেছেন অভিনেতা, পরিচালক। মন্দিরা বেদী থেকে দীপিকা পাড়ুকোন, আনুশকা শর্মা; আজকের জিশান আইয়ুব, জয়দীপ আহেলওয়াতরা শাহরুখের কথা বলেন এবং তারাই বলেন, আরো বহুদিন শাহরুখ খান বাদশার মতোই রাজত্ব করবেন। তিনি ফ্লপ কিংবা হিটের বাইরের এক তারকা।

নিউজ ট্যাগ: শাহরুখ খান

আরও খবর



‘দর্শকরা সব সময় আমাকে অনুপ্রাণিত করেন’

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১০ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ | ৪৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সিনেমাপ্রেমী দর্শকের কাছে এ মুহূর্তে সবচেয়ে প্রিয় নাম বিদ্যা সিনহা মিম। পরাণ দিয়ে তিনি দর্শকের কাছে এক অনন্য উচ্চতায় চলে গিয়েছেন। সদ্য মুক্তিপ্রাপ্ত দামাল সিনেমায়ও তার অভিনয় দর্শককে মুগ্ধ করেছে। সিনেমার পালে নতুন হাওয়া বইতে শুরু করে বিদ্যা সিনহা মিম অভিনীত ও রায়হান রাফি পরিচালিত পরাণ সিনেমা দিয়ে। এর মাধ্যমে দর্শকের মধ্যে নতুন করে আগ্রহ তৈরি হতে দেখা যায়, প্রশংসা পায় মিমের অভিনয়। সিনেমাটিতে আরো যুক্ত ছিলেন শরীফুল রাজ, ইয়াশ রোহান। এছাড়া বিদ্যা সিনহা মিম তার অভিনয়জীবনের স্বীকৃতিস্বরূপ পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। খালিদ মাহমুদ মিঠু পরিচালিত জোনাকীর আলো সিনেমায় অভিনয়ের জন্য এ পুরস্কার পান তিনি।

মিমের মতো সম্মানিত হয়েছেন তার বাবা-মাও। একজন নায়িকা কিংবা অভিনেত্রী হিসেবে বিদ্যা সিনহা মিমের অবস্থান, যোগ্যতা ও মেধাকে বিবেচনায় রেখে ডা. আশীষ কুমার চক্রবর্তীর উদ্যোগে ২০১৭ সালে গরবিনী মা সম্মাননায় ভূষিত হন মিমের মা ছবি সাহা। চলতি বছর বাবা দিবসে মিমের বাবা বীরেন্দ্রনাথ সাহাকে গর্বিত বাবা সম্মাননায় ভূষিত করা হয়। নিজের মেয়ের জন্য বাবা-মায়ের এই সম্মাননা মিমের কাছে জীবনের শ্রেষ্ঠ প্রাপ্তি। কারণ তার কাজের ওপর, তার স্বীকৃতির ওপর বিবেচনা করেই তার বাবা-মা সম্মাননায় ভূষিত হয়েছেন। মিম তার নতুন জীবন শুরু করেছেন নিজের মনের মতো একজন মানুষের সঙ্গে। সনির সঙ্গে নতুন জীবন নিয়ে তিনি ভীষণ খুশি।

বৃহস্পতিবার (১০ নভেম্বর) বিদ্যা সিনহা মিমের জন্মদিন। পরিবারের সঙ্গেই কেক কেটে জন্মদিনের যাত্রা করেছেন। জন্মদিন ও এক জীবনে প্রাপ্তি প্রসঙ্গে বিদ্যা সিনহা মিম বলেন, জীবন তো কেবল শুরু হলো। ছোট্ট এ জীবনে এত এত প্রাপ্তি, সত্যিই সব ঈশ্বরের কৃপা। তাই তার প্রতিই বারবার কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করি, তাকেই স্মরণ করি আমার প্রতিটি কাজে, সফলতায়। একজন লাক্স সুপারস্টার হওয়া থেকে শুরু করে অভিনয়জীবন, জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্তি, আমার জন্য বাবা-মায়ের সম্মাননা, ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হওয়া, আমার জীবনে সনিকে পাওয়া-সব মিলিয়ে ছোট্ট এ জীবনে এত প্রাপ্তি-আমার জীবনকে করেছে সমৃদ্ধ। আমি এ নিয়েই সুখে আছি। দর্শকের প্রতি অপরিসীম ভালোবাসা। তারা আমার কাজ উপভোগ করেন এবং সব সময় আমাকে অনুপ্রাণিত করেন।


আরও খবর



কুমিল্লা বোর্ডে মেয়েদের চেয়ে এগিয়ে ছেলেরা

প্রকাশিত:সোমবার ২৮ নভেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ | ৫৬জন দেখেছেন

Image

কুমিল্লা প্রতিনিধি:

এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় এ বছর কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডে পাশের হার ৯১ দশমিক ২৮ শতাংশ। এবার ছেলেদের পাসের হার ৯১ দশমিক ৫৬ শতাংশ এবং মেয়েদের ৯১ দশমিক ৬ শতাংশ।

সোমবার (২৮ নভেম্বর) দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেন কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক ড. মো. আসাদুজ্জামান। 

তিনি জানান, এবার কুমিল্লা বোর্ডে জিপিএ-৫ পেয়েছে ১৯ হাজার ৯৯৮ জন। ছেলেদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৭ হাজার ৮৭৭ জন আর মেয়েরা পেয়েছে ১২ হাজার ১২১ জন।

তিনি আরও জানান, চলতি বছর কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডের অধীনে ফেনী, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, চাঁদপুর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া ও কুমিল্লার এক হাজার ৭৬৬টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে এক লাখ ৬৮ হাজার ৭৭৫ পরীক্ষার্থী অংশ নেয়। তার মধ্যে ছাত্র ৮০ হাজার ৮১০ এবং ছাত্রী এক লাখ ৫ হাজার ৯৬৫ জন। পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছে এক লাখ ৭০ হাজার ৪৮০ শিক্ষার্থী। এর মধ্যে ৭৩ হাজার ৯৯৩ ছাত্র ও ৯৬ হাজার ৪৯১ ছাত্রী।


আরও খবর