Logo
শিরোনাম

শাবিপ্রবিতে ‘ভুতুড়ে’ পরিবেশ

প্রকাশিত:সোমবার ২০ জুন ২০22 | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৬২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে বন্যার পানি কমতে শুরু করেছে। তবে ক্যাম্পাসে আগের মতো পরিবেশ নেই। চারদিকে ময়লা-আবর্জনা ছড়িয়ে রয়েছে। ক্যাম্পাসের টংগুলোর বেহাল দশা। রাস্তায় কাদামাটি, গাছের ডালপালা ও পলিথিন জাতীয় বিভিন্ন জিনিসে নোংরা পরিবেশ তৈরি হয়েছে। আবাসিক হলে শিক্ষার্থী না থাকায় বিশ্ববিদ্যালয়ে ভুতুড়ে পরিবেশ তৈরি হয়েছে।

সরেজমিনে দেখা যায়, ক্যাম্পাসের যে সড়কগুলোতে পানি উঠেছে সেগুলোর ওপর কাদামাটিসহ বিভিন্ন ময়লা-আবর্জনা ছড়িয়ে আছে। চাষাভূষার টং, ফুডকোর্ট, লাল টংগুলোর দশা একেবারে খারাপ। বেঞ্চগুলো বন্যার পানিতে নোংরা হয়ে আছে। এছাড়া ক্যাম্পাসে ময়লা ফেলানোর ডাস্টবিন উল্টো হয়ে পড়ে আছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের পলিটিক্যাল স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী মোহাইমিনুল ইসলাম বলেন, ক্যাম্পাসের দিকে তাকালেই খুব খারাপ লাগে। চারদিকে ময়লা-আবর্জনা ছড়িয়ে আছে। এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর সহযোগী অধ্যাপক ইশরাত ইবনে ইসমাইল বলেন, বন্যার পানি কমতে শুরু করেছে। আমরা এ বিষয়ে পদক্ষেপ নিচ্ছি। যত দ্রুত সম্ভব ক্যাম্পাস পরিষ্কার করা হবে।


আরও খবর



সিরাজগঞ্জে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে যুবকের মৃত্যু

প্রকাশিত:সোমবার ১৩ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২ | ৬১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মতিউর রহমান (২৮) নামে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার (১৩ জুন) দুপুরে উপজেলার সগুনা ইউনিয়নের ধাপতেতুলিয়া গ্রামের ধাপপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

মতিউর ওই গ্রামের মো. আইয়ুজ উদ্দিনের ছেলে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য চাঁন আলী জানান, দুপুরে মতিউর বাড়ির লোকজনের সঙ্গে ঘরের চাল পরিষ্কার করার কাজ করছিলেন। প্রচণ্ড গরমের কারণে তিনি বৈদ্যুতিক তার লাগিয়ে উঠানে ফ্যানে সংযোগ দেন। পরে বৈদ্যুতিক তারের কাটাস্থানে হাত লেগে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান তিনি।


আরও খবর



ফের পেছাল নিপুণ-জায়েদের শুনানি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৭ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ৩০ জুন ২০২২ | ৫৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক পদ নিয়ে জায়েদ-নিপুণের সাধারণ সম্পাদকের পদ নিয়ে সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগে শুনানি পিছিয়েছে। আগামী রোববার শুনানির দিন ধার্য করা হয়েছে।

সোমবার প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে এ বিষয়ে শুনানি হওয়ার কথা ছিল।

জায়েদ খানের আইনজীবী মো. শহীদুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গত ২৩ মে শুনানি ৫ জুন পর্যন্ত মুলতবি করেছিলেন আপিল বিভাগ।

প্রসঙ্গত, চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির ২০২২-২৪ মেয়াদে গত ২৮ জানুয়ারি শিল্পী সমিতির নির্বাচন হয়। পরদিন ২৯ জানুয়ারি প্রাথমিক ফলে ইলিয়াস কাঞ্চনকে সভাপতি ও জায়েদ খানকে সাধারণ সম্পাদক ঘোষণা করা হয়। কিন্তু নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগ এনে ফল মেনে নিতে অস্বীকার করেন নিপুণ। এর পরই একে অপরের বিরুদ্ধে আইনি লড়াইয়ে নেমেছেন জায়েদ-নিপুণ।


আরও খবর

২৭ বছরের সম্পর্কে ইতি টানলেন মীর!

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২

বড় পর্দায় বাম-কংগ্রেস সন্ত্রাস

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২




মাত্রার চেয়ে জিডিপির প্রবৃদ্ধি বেশি অর্জিত হবে : অর্থমন্ত্রী

প্রকাশিত:সোমবার ১৩ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২ | ৪৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চূড়ান্ত হিসাবে জিডিপির প্রবৃদ্ধি, লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি অর্জিত হবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। সম্পুরক বাজেটের উপর সাধারণ আলোচনায় সংসদ সদস্যদের বক্তব্যের জবাবে তিনি এই আশা প্রকাশ করেন। এরআগে ওই আলোচনায় অংশ নিয়ে বিএনপির সংসদ সদস্য মো. হারুনুর রশীদ দায়মুক্তি না দিয়ে অর্থ পাচারকারীদের গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়েছেন।

আজ সোমবার স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে শুরু হওয়া সংসদ অধিবেশনে অর্থমন্ত্রী বলেন, প্রতিটি বাজেটেই সরকারের উন্নয়নের অভীষ্ট লক্ষ্য অর্জনের লক্ষ্যে সামষ্টিক অর্থনীতির বিভিন্ন সূচকসহ সরকারের আয়-ব্যয়ের হিসাব প্রাক্কলন করা হয়।

পরে বাজেট বাস্তবায়নকালে যৌক্তিক কারণে কখনো কখনো কিছুটা সংশোধনের প্রয়োজন হয়। 

এ বছরের প্রেক্ষাপট সকলের জানা। কোভিড-১৯ ও রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের ফলে গোটা বিশ্ব অর্থনীতিতে অস্বাভাবিক মূল্যস্ফীতি ঘটেছে। যার কমবেশি বাংলাদেশের অর্থনীতিতে আঘাত হেনেছে। সেটা বিবেচনায় নিয়ে সম্পূরক বাজেটে যৌক্তিক কারণে ব্যয় এবং ঘাটতি কিছুটা সমন্বয় করতে হয়েছে। তবে আমাদের জিডিপির প্রবৃদ্ধির লক্ষ্যমাত্রা ৭ দশমিক ২ শতাংশ অপরির্তিত রয়েছে।

অর্থ মন্ত্রী আরো বলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের সংসদ সদস্য এখানে কিছু কথা বলেছেন। কিন্তু আমি আজকে কোনো জবাব দেবো না। জবাব দেবো বাজেট আলোচনার সময়। বাজেট বক্তৃতায় যখন সময় পাবো, তখন অবশ্যই জবাব দেবো।

এর আগে বিএনপির হারুনুর রশীদ তার বক্তব্যে বিদেশে অর্থপাচার, নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের জন্য বরাদ্দের বিরোধিতাসহ সম্পূরক বাজেটের বিভিন্ন খাতে বরাদ্দ প্রস্তাবের কঠোর সমালোচনা করেন। তিনি বলেন, যারা বিদেশে অর্থ পাচার করেছে তাদের একজনকেও গ্রেফতার বা আইনের আওতায় আনা যায়নি। তাই পাচার হওয়া টাকা ফিরিয়ে আনতে পাচারকারিদের দায়মুক্তি দিয়ে কোনো লাভ হবে না। এতে লাভের চেয়ে ক্ষতি বেশী হবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

হারুনুর রশীদ বলেন, দেশের অর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলি দূর্বল। লুটেরা দুনীতিবাজরা বিদেশে অর্থ পাচার করছে। গত ১০/১৫ বছরে লাখ লাখ কোটি টাকা বিদেশে পাচার হয়েছে। পাচারকারিদের আইনের আওতায় আনা যায়নি। তারা ধরা ছোয়ার বাইরে আছে। তিনি বলেন, পিকে হালদারকে আমরা কেন গ্রেফতার করতে পারলাম না? সে ভারতে গ্রেফতার হয়েছে, ভারত আমাদের বন্ধু রাষ্ট্র, কেন তাকে ভারত থেকে আনতে পারলাম না। বাংলাদেশের যে সব ক্রিমিনালকে ভারত গ্রেফতার করেছে তাদের দেশে ফিরিয়ে আনতে হবে। পাচার হওয়া টাকা ফিরিয়ে আনতে হবে।

সম্পুরক বাজেটের সমালোচনা করে বিএনপি দলীয় সংসদ সদস্য বলেন, বিভিন্ন খাতে বরাদ্দ বাড়িয়ে, তা অপচয় করা হয়েছে। নির্বাচন কমিশনে ব্যয় বাড়ানো হয়েছে। দেশে কি নির্বাচন হচ্ছে? বরং নির্বাচন কমিশন অসহায়ত্ব প্রকাশ করছে। তিনি বলেন, আর্থিক সংগঠসগুলোর ব্যবস্থাপনায় যে দূর্বলতা রয়েছে, তা কাটিয়ে প্রতিষ্ঠাগুলোকে শক্তিশালী করতে হবে।

তিনি আরো বলেন, আইনের প্রয়োগের ক্ষেত্রে বৈষম্য হচ্ছে। সরকারি দলের এক আইন, বিরোধী দলের জন্য আরেক আইন। নারীদের নিরাপত্তা নেই। জনগণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দাবি জানান তিনি।

সাধারণ আলোচনায় আরো অংশ নেন আওয়ামী লীগের ওয়াসিকা আয়শা খান ও আহসানুল ইসলাম টিটু এবং জাতীয় পার্টির রওশন আরা মান্নান।


আরও খবর



হঠাৎ করেই কক্সবাজারে মেহজাবিন

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৪ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ৩০ জুন ২০২২ | ৩৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী মেহজাবিন চৌধুরী। ঈদকে কেন্দ্র করে বেশ কিছু নাটকে তাকে দেখা যাবে। তার ফাঁকে হঠাৎ তার দেখা মিললো কক্সবাজারের সমুদ্র সৈকতে। একই সময়ে একই স্থানে দেখা গেল নির্মাতা আদনান আল রাজীবকেও। টিকটক ভিডিওতে দুজন ধরা দিয়েছেন একসঙ্গে।

এই দুজনের প্রেমের সম্পর্ক নিয়ে গুঞ্জন রয়েছে শোবিজে। তাই কক্সবাজারে দুজনের ছবি নিয়ে অনেক জল্পনা-কল্পনা যখন তুঙ্গে তখন জানা গেল, তারা সমুদ্র সৈকতে সময় কাটাতে নয়, তারা এক হয়েছেন নতুন কাজের টানে। রাজীব নতুন একটি বিজ্ঞাপনচিত্র তৈরি করছেন। এর মডেল হয়েছেন মেহজাবিন। সম্প্রতি কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে টানা তিনদিন শুটিং হয়েছে বিজ্ঞাপনচিত্রটির।

আদনান আল রাজীব বলেন, গত তিনদিন ধরে কক্সবাজারের মেরিন ড্রাইভসহ বিভিন্ন জায়গায় বিজ্ঞাপনের শুটিং শেষ করলাম। এতে মেহজাবিন কাজ করছে। আরও থাকছেন একজন নতুন মডেল। বাংলালিংকের টিভিসিটি শিগগিরই প্রচারে আসবে।

নিউজ ট্যাগ: মেহজাবিন চৌধুরী

আরও খবর

২৭ বছরের সম্পর্কে ইতি টানলেন মীর!

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২

বড় পর্দায় বাম-কংগ্রেস সন্ত্রাস

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২




মহামারীর পর প্রথমবারের মতো সৌদিতে বিদেশি হজযাত্রীরা

প্রকাশিত:শনিবার ০৪ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | ৮০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

করোনাভাইরাস মহামারীর পর এই প্রথম বিদেশি হজযাত্রীদের প্রথম ব্যাচকে স্বাগত জানিয়েছে সৌদি আরব। শনিবার (৪ জুন) হজ যাত্রীদের প্রথম ব্যাচকে স্বাগত জানায় সৌদি কর্তৃপক্ষ। মহামারীর কারণে কর্তৃপক্ষ বার্ষিক এই ধর্মাচার অনুষ্ঠান কঠোরভাবে সীমিত করতে বাধ্য হয়েছিল।

রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম জানায়, ইন্দোনেশিয়া থেকে দলটি মদিনা শহরে অবতরণ করেছে। আগামী মাসে হজের প্রস্তুতির জন্য আসন্ন কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই পবিত্র শহর মক্কার উদ্দেশে তারা যাত্রা করবে।

সৌদি হজ মন্ত্রণালয়ের মোহাম্মদ আল-বিজাভি রাষ্ট্র পরিচালিত আল-এখবারিয়া চ্যানেলকে বলেন,আজ আমরা ইন্দোনেশিয়া থেকে এই বছরের হজযাত্রীদের প্রথম দলটিকে পেয়েছি, এরপর থেকে মালয়েশিয়া ও ভারত থেকে ফ্লাইট আসতে থাকবে।”

তিনি সৌদি আরবকে তাদের থাকার জন্য সম্পূর্ণ প্রস্তুত” হিসেবে বর্ণনা করে বলেন, আজ আমরা মহামারীজনিত কারণে দুই বছরের বাধার পরে, সৌদির বাহির থেকে আল্লাহর অতিথিদের পেয়ে খুশি।”

ইসলামের পাঁচটি স্তম্ভের মধ্যে হজ একটি। সামর্থ্যবান মুসলমানদের জীবনে অন্তত একবার হজ করা আবশ্যক। এই হজ বিশ্বের বৃহত্তম ধর্মীয় সমাবেশগুলির মধ্যে অন্যতম। ২০১৯ সালে প্রায় ২.৫ মিলিয়ন মুসলমান হজব্রত পালন করেছিলেন। কিন্তু ২০২০ সালে মহামারী শুরুর পর সৌদি কর্তৃপক্ষ ঘোষণা করেছিল যে, তারা শুধুমাত্র ১,০০০ হজযাত্রীকে হজে অংশ নিতে দেবে। পরের বছর তারা ওই সংখ্যা বাড়িয়ে লটারির মাধ্যমে নির্বাচিত সৌদি নাগরিক এবং বাসিন্দাসহ মোট ৬০,০০০ জনকে সম্পূর্ণ টিকা দিয়ে হজে অংশগ্রহণের অনুমতি দেয়। সে বছর বিদেশি হজযাত্রীদের বাদ দিলে, বিশ্বব্যাপী মুসলমানরা যারা, স্বভাবতই  হজে অংশ নেয়ার নিয়তে সারা বছরে হজের অর্থ সঞ্চয় করেছেন, তাদের মধ্যে গভীর হতাশা সৃষ্টি হয়। এরপর গত এপ্রিলে সৌদি আরব দেশের অভ্যন্তর এবং বাহির থেকে ১০ লাখ মুসলমানকে চলতি বছরের জুলাইয়ে অনুষ্ঠেয় হজে অংশগ্রহণের অনুমতি দেয়ার ঘোষণা দেয়।

মহামারীর আগে হজযাত্রীরাই সৌদি আরবের প্রধান রাজস্ব উপার্জনকারী ছিল, যাদের থেকে বছরে তারা প্রায় ১২ বিলিয়ন ডলার আয় করত।

সৌদি হজ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এই বছরের হজযাত্রা ৬৫ বছরের কম বয়সী টিকাপ্রাপ্ত মুসলমানদের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকবে। সৌদি আরবের বাইরে থেকে যারা আসছেন, তাদের অবশ্যই হজ ভিসার জন্য আবেদন করতে হবে। তাদের ভ্রমণের ৭২ ঘণ্টার মধ্যে নেওয়া পরীক্ষা থেকে কোভিড -১৯ নেতিবাচক ফলাফল জমা দিতে হবে।

 


আরও খবর

দুই বছর পর পুরনো রূপে রথযাত্রা

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২