Logo
শিরোনাম

শুরু হলো সিয়াম সাধনার মাস

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ১১০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

রহমত, মাগফিরাত ও নাজাতের সওগাত নিয়ে বছর ঘুরে আবার এল পবিত্র মাহে রমজান। বাংলাদেশের আকাশে গতকাল মঙ্গলবার পবিত্র রমজান মাসের চাঁদ দেখা গেছে। আজ বুধবার থেকে মাসব্যাপী সিয়াম সাধনা শুরু হয়েছে।

করোনার সংক্রমণ থামাতে বিশেষ বিধিনিষেধ অনুযায়ী মসজিদগুলোতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে গতকাল এশার নামাজের পরে প্রথম তারাবির জামাত আদায় করা হয়। এরপর শেষ রাতে সেহ্‌রি খেয়ে রোজা রেখেছেন ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা। এই মাসে প্রতিদিন সুবহে সাদিক থেকে সূর্যাস্ত পর্যন্ত দিবাভাগে পানাহার না করে থেকে সংযমের মাধ্যমে আত্মশুদ্ধি করে মহান আল্লাহ তাআলার অনুগ্রহ কামনা করবেন তাঁরা।

এর আগে বায়তুল মোকাররমে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সভাকক্ষে গতকাল সন্ধ্যায় জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির রমজানের চাঁদ দেখার বিষয়ে অনুষ্ঠিত বৈঠক শেষে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খান আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা দেন, বাংলাদেশের আকাশে চাঁদ দেখা গেছে, (আজ) বুধবার থেকে রোজা শুরু।

ইসলামী বিধান অনুযায়ী, রমজানের চাঁদ দেখা যাওয়ায় গতকাল শেষরাতে সেহরি খেয়ে আজ রোজা রেখেছেন ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা।

এদিকে মসজিদে প্রতি ওয়াক্ত নামাজে সর্বোচ্চ ২০ জন মুসল্লি জামাতে অংশ নিতে পারবেন বলে নির্দেশনা দিয়েছে ধর্ম মন্ত্রণালয়। করোনা পরিস্থিতিতে আজ ১৪ এপ্রিল থেকে পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত মসজিদে নামাজ আদায়ে এ নির্দেশনা বলবৎ থাকবে।

ধর্ম মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মো. সাখাওয়াৎ হোসেন স্বাক্ষরিত সোমবার জারিকৃত নির্দেশনায় বলা হয়, করোনা পরিস্থিতিতে সুরক্ষা ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে মসজিদে পাঁচ ওয়াক্ত নামাজের প্রতি ওয়াক্তে সর্বোচ্চ ২০ জন মুসল্লি অংশ নিতে পারবেন। রমজানে তারাবির নামাজে খতিব, ইমাম, হাফেজ, মুয়াজ্জিন ও খাদিমসহ সর্বোচ্চ ২০ জন মুসল্লি অংশগ্রহণ করবেন। জুমার নামাজে সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে মুসল্লিরা অংশ নেবেন। মুসল্লিদের পবিত্র রমজানে তিলাওয়াত ও যিকিরের মাধ্যমে মহান আল্লাহর রহমত ও বিপদ মুক্তির জন্য দোয়া করার অনুরোধ জানানো হয়েছে।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে স্থানীয় প্রশাসন, আইন শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণকারী বাহিনী, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং সংশ্লিষ্ট মসজিদের পরিচালনা কমিটিকে এই নির্দেশনা বাস্তবায়ন করার জন্য অনুরোধ জানানো হয়।

নিউজ ট্যাগ: রমজান

আরও খবর



কমতে শুরু করেছে নিত্যপণ্যের দাম

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৩ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৮৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

পবিত্র রমজান মাসের ১০ দিন হয়ে গেলো। এর প্রভাব পড়েছে নিত্যপণ্যের বাজারে। রোজা আসার আগ মুহূর্তে যেসব পণ্যের দাম বেড়েছিল, সেই সব পণ্যের দাম কমে এসেছে। ব্যবসায়ীরা বলছেন, লকডাউন ও রোজার শুরুতে মানুষ কেনাকাটা বেশি করায় বেড়েছিল চাল, ডাল, তেল, সবজিসহ সব ধরনের পণ্যের দাম। কিন্তু এখন আগের মতো চাহিদা না থাকায় জিনিসপত্রের দাম কমতে শুরু করেছে। তবে ক্রেতারা বলছেন, নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য বাজার পরিস্থিতি এখনও স্বস্তিদায়ক নয়।

রাজধানীর কাওরান বাজারসহ কয়েকটি বাজার ঘুরে দেখা যায়, চাল ডাল ও তেলের সঙ্গে কমছে সব ধরনের সবজির দামও। জিনিসপত্রের দাম কিছুটা কমলেও অস্বস্তি রয়েছে ভোক্তাদের মধ্যে। এ প্রসঙ্গে রাজধানীর মালিবাগের বাসিন্দা পিয়াস ইসলাম বলেন, দুই মাসের বেশি সময় ধরে অধিকাংশ পণ্যের দাম ছিল চড়া। এখন কিছু পণ্যের দাম কমলেও সীমিত আয়ের মানুষদের জন্য পরিস্থিতি এখনও অস্বস্তিকর। তিনি বলেন, অধিকাংশ পণ্যের দাম বেড়ে দ্বিগুণ হয়েছিল। ক্রেতাদের নাগালের বাইরে থাকা পণ্যগুলো নিয়ে ক্রেতাদের মধ্যে হতাশা রয়েছেই।

এদিকে সরকারের বিপণন সংস্থা টিসিবির তথ্য বলছে, গত এক সপ্তাহের ব্যবধানে দাম কমেছে দেড় শতাংশ। মাঝারি মানের চালের দাম কমেছে ১ দশমিক ৭৯ শতাংশ এবং এক সপ্তাহের ব্যবধানে মোটা চালের দাম কমেছে ৩ দশমিক ০৬ শতাংশ।

খোলা সয়াবিন তেলের দাম কমেছে দশমিক ৮২ শতাংশ। সয়াবিন তেলের ৫ লিটারের বোতলের দাম কমেছে ১ দশমিক ৫৪ শতাংশ। আর এক লিটার বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম কমেছে এক দশমিক ৮২ শতাংশ।

ছোলার দাম কমেছে ২ শতাংশ। পেঁয়াজের দাম কমেছে ৯ দশমিক ৬৪ শতাংশ। রসুনের দাম কমেছে ৪ দশমিক ৩৫ শতাংশ। আদা আমদানি কমেছে ৪ দশমিক ১৭ শতাংশ। জিরার দাম কমেছে ২ দশমিক ৭৮ শতাংশ। দারুচিনির দাম কমেছে ৩ দশমিক ৫৭ শতাংশ। ডিমের দাম কমেছে ৬ দশমিক ৪৫ শতাংশ।

বাজারে সপ্তাহের ব্যবধানে প্রতিকেজি ব্রয়লার মুরগির দাম কমেছে ২০ থেকে ২৫ টাকা। মুরগি ব্যবসায়ীরা বলছেন, রোজার আগে ব্রয়লার মুরগির দাম ছিল প্রতি কেজি ১৭০ টাকা। আজ সেই ব্রয়লার মুরগির দাম ১৩০ টাকা কেজি। সোনালিকা (কক) ২৫০ টাকা এবং লেয়ার (লাল) ২০০ থেকে ২১০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে।

শুক্রবার গরুর মাংস বিক্রি হচ্ছে ৫৮০ টাকায় আর খাসির মাংসের কেজি ৮৫০ টাকা। প্রতিহালি ডিম বিক্রি হচ্ছে ২৮ থেকে ৩০ টাকায়।

মানিক নগর এলাকার মুদি ব্যবসায়ী ইউসুফ আলী জানান, পেঁয়াজের দাম কমেছে। এখন ৩০ থেকে ৩৫ টাকা কেজি। দেশি আদা ও রসুন ৮০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে এবং চায়না রসুন বিক্রি হচ্ছে ১১০ টাকা কেজি দরে।

ছোট দানার মসুর ডাল ১০০ টাকা এবং মোটা দানার রসুন ৭০ টাকা, মুগ ডাল ১২০ টাকা, মটর ডাল ১০০ টাকা, ছোলা ৭০ টাকা, খেসারি ৮০ টাকা এবং ডাবরি ৪৫ থেকে ৫০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া অ্যাংকর ডালের বেসন ৬০ টাকা এবং বুটের ডালের বেসন ১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। চিনি বিক্রি হচ্ছে ৭০ টাকা।

বোতলজাত সয়াবিন তেল কোম্পানি ভেদে বিক্রি হচ্ছে এক লিটার ১৩৫ থেকে ১৪০ টাকা এবং পাঁচ লিটার ৬৪০ থেকে ৬৬০ টাকা। প্রতি কেজি খুচরা সয়াবিন তেল বিক্রি হচ্ছে ১৩২ থেকে ১৩৫ টাকা এবং পামওয়েল ১১০ থেকে ১১৫ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে।

এদিকে বাজারে সবজির দামও কমেছে। গত সপ্তাহে যে বেগুন বিক্রি হয়েছে ৭০ থেকে ৮০ টাকা। সেই বেগুন এখন প্রতিকেজি ৬০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে। শসা ৫০ টাকা কেজি; গত সপ্তাহে বিক্রি হয়েছে ৭০ টাকায়। প্রতিকেজি পটোল, ঢ্যাঁড়স, ঝিঙে, চিচিঙ্গা ও ধুন্দল বিক্রি হচ্ছে ৫০ থেকে ৬০ টাকা কেজি। কচুর লতি, বরবটি ও করলা বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকা কেজিতে। পেঁপে ৪০ টাকা কেজি, টমেটো ৩০ থেকে ৪০ টাকা, গাজর ৪০ টাকা এবং আলু ২০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে। লাউ ও চালকুমড়া আকার ভেদে ৪০ থেকে ৬০ টাকায় বিক্রি করেছেন ব্যবসায়ীরা। লেবু হালিপ্রতি আকার ভেদে ২০ থেক ৪০ টাকা। কাঁচামরিচ বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকা কেজি, ধনেপাতা ও পুদিনাপাতা ১০০ টাকা থেকে ১২০ টাকা কেজি।

বাজারে নতুন আসা কাকরোল প্রতিকেজি বিক্রি হচ্ছে ৮০ থেকে ৯০ টাকায়। কাকরোলের মতো চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে কচুর লতি। এক কেজি কচুর লতি কিনতে গুণতে হচ্ছে ৭০ থেকে ৮০ টাকা। কাঁচকলার হালি বিক্রি হচ্ছে ৩০ থেকে ৪০ টাকা।



আরও খবর

সবজির বাজার বেশ চড়া

শুক্রবার ১৬ এপ্রিল ২০২১




করোনায় ভারতে একদিনে রেকর্ড ২৭৬৭ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত:রবিবার ২৫ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ মে ২০২১ | ৮২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ভারতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড ২৭৬৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশটিতে করোনায় মোট মৃত্যুর সংখ্যা গিয়ে দাঁড়ালো ১ লাখ ৯২ হাজার ৩১১ জনে।

এদিন আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৪৯ হাজার মানুষ। ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় রোববার (২৫ এপ্রিল) এসব তথ্য জানায়। ভারতে গত কয়েকদিন ধরে দৈনিক ২ হাজারের বেশি মানুষ মারা যাচ্ছে করোনায়।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্য অনুযায়ী, ২০ এপ্রিল ভারতে ২ হাজার ২০ জনের মৃত্যু হয়। এরপর ২১ এপ্রিল ২ হাজার ১০২, ২২ এপ্রিল ২ হাজার ২৫৬, ২৩ এপ্রিল ২ হাজার ৬২১ এবং ২৪ এপ্রিল ২ হাজার ৭৬৭ জনের মৃত্যু হয়।

এদিকে দেশটিতে করোনার প্রকোপ বেড়ে যাওয়ায় অক্সিজেন সংকট দেখা দিয়েছে। বিভিন্ন রাজ্যে করোনার সংক্রমণ রোধে জারি করা হয়েছে বিধিনিষেধ।


আরও খবর



করোনায় দেশে মৃত্যুর সকল রেকর্ড ছাড়ালো

প্রকাশিত:রবিবার ১৮ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৯৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সর্বাত্মক লকডাউনর পঞ্চম দিন রোববার (১৮ এপ্রিল) দেশে করোনায় সর্বোচ্চ ১০২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১০ হাজার ৩৮৫ জনে। এর আগে শনিবার (১৭ এপ্রিল) একদিনে সর্বোচ্চ ১০১ জনের মৃত্যু হয়।

এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৩ হাজার ৬৯৮ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। এতে দেশে এখন পর্যন্ত মোট করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭ লাখ ১৮ হাজার ৯৫০ জনে।

করোনাভাইরাস নিয়ে রোববার (১৮ এপ্রিল) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদফতরের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এদিকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, রোববার (১৮ এপ্রিল) সকাল পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মারা গেছেন ১১ হাজার ৮০৬ জন এবং নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৭ লাখ ৮৯ হাজার ১১৩ জন। এ নিয়ে বিশ্বে মোট করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৩০ লাখ ২৩ হাজার ৮১৩ জনের এবং আক্রান্ত হয়েছেন ১৪ কোটি ১৩ লাখ ৫৩৮ জন। এ ছাড়া সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১১ কোটি ৯৯ লাখ ১৪ হাজার ৭৮৭ জন।

করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ২৩ লাখ ৭২ হাজার ১১৯ জন। মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৮০ হাজার ৭৫৬ জনের।

আক্রান্তে দ্বিতীয় ও মৃত্যুতে তৃতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে এখন পর্যন্ত সংক্রমিত হয়েছেন এক কোটি ৪৭ লাখ ৮২ হাজার ৪৬১ জন এবং মারা গেছেন এক লাখ ৭৭ হাজার ১৬৮ জন।

আক্রান্তে তৃতীয় এবং মৃত্যুতে দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত করোনায় এক কোটি ৩৯ লাখ ১৩৪ জন সংক্রমিত হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ৭১ হাজার ৮৮৯ জনের।

আক্রান্তের দিক থেকে চতুর্থ স্থানে রয়েছে ফ্রান্স। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫২ লাখ ৬০ হাজার ১৮২ জন। ভাইরাসটিতে মারা গেছেন এক লাখ ৫৯৩ জন।

আক্রান্তের দিক থেকে রাশিয়া রয়েছে পঞ্চম স্থানে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৪৬ লাখ ৯৩ হাজার ৪৬৯ জন। এর মধ্যে মারা গেছেন এক লাখ ৫ হাজার ১৯৩ জন।

এদিকে আক্রান্তের তালিকায় যুক্তরাজ্য ষষ্ঠ, তুরস্ক সপ্তম, ইতালি অষ্টম, স্পেন নবম এবং জার্মানি দশম স্থানে রয়েছে। এই তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ৩৩তম।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৮টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড-১৯।


আরও খবর



ভাড়া বিমানে দেশ ছেড়েছেন বসুন্ধরার এমডির স্ত্রী–সন্তান

প্রকাশিত:শুক্রবার ৩০ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ১০১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

দেশ ছেড়েছেন বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের (এমডি) স্ত্রীসন্তানসহ পরিবারের বেশ কয়েকজন সদস্য। বৃহস্পতিবার (২৯ এপ্রিল) রাত ১০টার দিকে দিকে একটি ভাড়া করা বিমানে তারা দেশ ছাড়েন বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের (বেবিচক) চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মফিদুর রহমান জানান, বেবিচক তাদের অনুমতি না দিলেও স্পেশাল ব্র্যাঞ্চ থেকে অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

বিমানবন্দর সূত্রে জানা যায়, ভাড়া করা ওই বিমানে বসুন্ধরা গ্রুপের এমডির স্ত্রী সাবরিনা সোবহান, তাদের দুই সন্তান, ছোট ভাইয়ের স্ত্রী ইয়াশা সোবহান এবং তাদের মেয়ে ও দুই পরিবারের তিনজন গৃহকর্মী দেশত্যাগ করেন।

এ তথ্য বেবিচক চেয়ারম্যান নিশ্চিত করতে না পারলেও তিনি জানান, ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ফ্লাইটটির দুবাইয়ের আল মাকতুম আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের উদ্দেশে রওনা হয়।

এর আগে বসুন্ধরা গ্রুপের এমডির ছোট ভাইও দেশ ছাড়েন।


আরও খবর

ঈদ মোবারক

শুক্রবার ১৪ মে ২০২১




দেশে করোনায় আরও ৪৫ প্রাণহানি

প্রকাশিত:শনিবার ০৮ মে ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৫৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
২৪ ঘণ্টায় করোনায় নতুন করে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন ১ হাজার ২৮৫ জন। এ নিয়ে দেশে করোনায় আক্রান্ত শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭ লাখ ৭২ হাজার ১২৭ জনে। গত ২৪ ঘণ্টায় অ্যান্টিজেন টেস্টসহ নমুনা পরীক্ষা করা

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এই সময়ে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন এক হাজার ২৮৫ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হওয়া ৪৫ জনের মধ্যে পুরুষ ২৬ জন আর নারী ১৯ জন। শনিবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় নতুন করে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন ১ হাজার ২৮৫ জন। এ নিয়ে দেশে করোনায় আক্রান্ত শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭ লাখ ৭২ হাজার ১২৭ জনে। গত ২৪ ঘণ্টায় অ্যান্টিজেন টেস্টসহ নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১৪ হাজার ৭০৩টি। এ নিয়ে মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৫৬ লাখ ১৩ হাজার ৯৭৯টি। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে ১১ হাজার ৮৭৮ জন হলো।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত থেকে সুস্থ হয়েছেন ২ হাজার ৪৯২ জন। এ নিয়ে মোট সুস্থ হয়েছেন ৭ লাখ ৬ হাজার ৮৩৩ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯১ দশমিক ৫৪ শতাংশ। এছাড়া শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যু হার ১ দশমিক ৫৪ শতাংশ। আর নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ৮ দশমিক ৭৪ শতাংশ।


আরও খবর