Logo
শিরোনাম

টিকার পর এবার করোনার ওষুধ আনছে ফাইজার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৯ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৮২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

যুক্তরাষ্ট্রের ফার্মাসিউটিক্যাল কোম্পানি ফাইজার করোনা প্রতিরোধে টিকা আনার পর এবার কাজ করছে এই রোগের চিকিৎসায় অ্যান্টি-ভাইরালওষুধ নিয়ে। মুখে গ্রহণ করার এ ওষুধটি করোনা প্রতিরোধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে।

ওষুধটি আসতে পারে বছরের শেষদিকে।

যুক্তরাষ্ট্রের গণমাধ্যম সিএনবিসিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ফাইজারের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) আলবার্ট বোরলা এসব কথা বলেছেন।

ওষুধটির বিষয়ে আলবার্ট বোরলা বলেন, যদি ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল ঠিকমতো হয় এবং ফুড এবং ড্রাগ অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (এফডিএ) অনুমোদন দেয় তবে বছরের শেষের দিকে যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে ওষুধটি পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হবে।

ওষুধটি করোনার নানা ধরন প্রতিরোধে আরও কার্যকর হবে বলে আশাবাদী ফাইজারের সিইও।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ওষুধটি করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে গেম চেঞ্জার হতে পারে। আক্রান্ত হওয়ার পর প্রাথমিক পর্যায়ের রোগীদের এ ওষুধ হাসপাতালে যাওয়া থেকে বিরত রাখবে।

গবেষকরা আশা করছেন, এ ওষুধ করোনাকে বিস্তৃত হতে দেবে না। পাশাপাশি এটা রোগীকে আক্রান্ত হওয়ার পরপরই হাসপাতালমুখী হওয়া থেকেও বিরত রাখবে।

খবরে বলা হয়, ফাইজার ৬ মাস থেকে ১১ বছর বয়সীদের জন্য একটি ভ্যাকসিন তৈরির চেষ্টা চলাচ্ছে। অপরদিকে ১২ থেকে ১৫ বছর বয়সীদের জন্য তৈরি তাদের ভ্যাকসিন শতভাগ কার্যকর বলে প্রমাণ পাওয়া গেছে। এটি অনুমোদন পাওয়ার বিষয়ে ফাইজার আশাবাদী।

মার্কিন কোম্পানি ফাইজার ও জার্মান প্রতিষ্ঠান বায়োএনটেক যৌথভাবে করোনাভাইরাসের টিকা তৈরি করেছে। এর প্রয়োগ চলছে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে। ফাইজারের দাবি, তাদের উদ্ভাবিত করোনার টিকা ৯৫ শতাংশ কার্যকর।


আরও খবর



করোনায় একদিনে ৫৭ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২১৭৭

প্রকাশিত:শুক্রবার ৩০ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১২ মে ২০২১ | ৮২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মহামারি করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৫৭ জনের মৃত্যু হয়েছে।  এ নিয়ে দেশে করোনায় প্রাণ হারালেন মোট ১১ হাজার ৪৫০ জন। আর গত ২৪ ঘণ্টায় প্রাণঘাতি ভাইরাসটি ধরা পড়েছে ২ হাজার ১৭৭ জনের শরীরে।

শুক্রবার বিকালে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দেওয়া তথ্যে এসব জানা গেছে। এর আগে গত ১৯ এপ্রিল ১১২ জনের সর্বোচ্চ মৃত্যুর খবর দেয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। এটি দেশে এখন পর্যন্ত একদিনে সর্বোচ্চ সংখ্যক মৃত্যুর রেকর্ড। এর আগে গত ১৬ ও ১৭ এপ্রিল করোনায় ১০১ জন করে মারা যান। আর ১৮ এপ্রিল করোনায় মারা যান ১০২ জন। দেশে প্রথম রেকর্ড মৃত্যু হয় সর্বাত্মক লকডাউনের প্রথম দিন ৯৬ জনের মৃত্যুর মধ্যদিয়ে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত ২১৭৭ জন নিয়ে দেশে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন মোট ৭ লাখ ৫৯ হাজার ১৩২ জন।

গত বছরের ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা শনাক্ত হয়। আর প্রথম মৃত্যু হয় ১৮ মার্চ। গত বছরের মে মাসের মাঝামাঝি থেকে সংক্রমণ বাড়তে শুরু করে। আগস্টের তৃতীয় সপ্তাহ পর্যন্ত শনাক্তের হার ২০ শতাংশের ওপরে ছিল। এরপর ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হতে শুরু করে করোনা পরিস্থিতি।

এ বছর মার্চে শুরু হয়েছে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ। প্রথম ঢেউয়ের চেয়ে এবার সংক্রমণ বেশি তীব্র। মধ্যে কয়েক মাস ধরে শনাক্তের চেয়ে সুস্থ বেশি হওয়ায় দেশে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা কমে আসছিল। কিন্তু মার্চ থেকে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যাও আবার বাড়তে শুরু করেছে।গত বছরে এত মৃত্যুর সংখ্যা দেখেনি দেশ। তবে এ বছরই আক্রান্ত ও মৃত্যু রেকর্ড হারে বাড়তে থাকে।


আরও খবর

আজ কলাপাড়ায় ঈদ-উল-ফিতর উদযাপন!

বৃহস্পতিবার ১৩ মে ২০২১




সীমানা জটিলতায় ট্রেন ও লঞ্চ চলাচল পুরোপুরি বন্ধ

প্রকাশিত:বুধবার ০৫ মে ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ মে ২০২১ | ৩৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

করোনা সংক্রমণের দিক থেকে বাংলাদেশ যথেষ্ট ঝুঁকির মধ্যে আছে। একারণে আগামী দিনগুলোতে স্বাস্থ্যবিধি মানার ক্ষেত্রে সতর্ক থাকার অবস্থান নিয়েছে সরকার। এ কারণে লকডাউন তুলে না নিয়ে তা বাড়ানোর আদেশ জারি করা হয়েছে। চলমান লকডাউন বা আরোপিত বিধিনিষেধ আগামী ১৬ মে রবিবার মধ্যরাত পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে।

তবে এই সময়ে চলমান লকডাউনের কৌশল পরিবর্তন করেছে সরকার। তিন দিনের ঈদের ছুটির দুই দিন শুক্রবার ও শনিবার পড়লেও বাড়ানো হয়নি এ ছুটি। শুধু তাই নয়, সরকারি-বেসরকারি কলকারখানা কোনও প্রতিষ্ঠানও সরকার নির্ধারিত তিন দিনের ছুটি বাড়িয়ে ভোগ করতে পারবে না।

এখানেই শেষ নয়, ঈদের ছুটি তিন দিন নিজ নিজ কর্মস্থলের বাইরে না যাওয়ার বিষয়ে কঠোর নির্দেশনা দিয়েছে সরকার। বলা হয়েছে, সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ঈদের ছুটিকালীন তিনদিন স্ব স্ব কর্মস্থলে থাকা আবশ্যিক। করোনাভাইরাস মহামারির মধ্যে সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত, বেসরকারি অফিস এবং ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ঈদের ছুটিতে বাধ্যতামূলকভাবে কর্মস্থলে থাকতে হবে।

পাশাপাশি বিক্ষোভ, দাবি-দাওয়া নিয়ন্ত্রণে গণপরিবহন চলাচলের অনুমতি দিয়েছে সরকার। তবে আন্তঃজেলা বাস সার্ভিস বন্ধ রাখা হয়েছে। বলা হয়েছে, এক জেলার গাড়ি অন্য জেলায় যেতে পারবে না। আর সীমানা জটিলতায় ট্রেন ও লঞ্চ চলাচল পুরোপুরি বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সরকারি প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, মাস্ক না পড়লে কঠোর ব্যবস্থা নিতে পারবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। প্রয়োজনে মোবাইল কোর্টে সাজাও দেওয়া যাবে। মার্কেট বা শপিংমল স্বাস্থ্যবিধি সংক্রান্ত আদেশ না মানলে তাৎক্ষণিক বন্ধ করে দেওয়া হবে। কোনও ছাড় নয়। এসব কঠোর বিধিনিষেধ আগের আদেশে ছিল না।


আরও খবর

ঈদ মোবারক

শুক্রবার ১৪ মে ২০২১




বাংলাদেশের বিপক্ষে শ্রীলঙ্কার স্কোয়াড

প্রকাশিত:বুধবার ১২ মে ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ মে ২০২১ | ৫৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলতে ১৬ মে বাংলাদেশ সফরে আসবে শ্রীলঙ্কা। বুধবার চূড়ান্ত করা হয়েছে স্কোয়াড। ১৮ ক্রিকেটার নিয়ে ঢাকায় আসবে লঙ্কানরা।

নবীন ক্রিকেটারদের নিয়ে গড়া দলে নেই নিয়মিত অধিনায়ক দিমুথ করুণারত্নে। তার বদলে বাংলাদেশ সফরে শ্রীলঙ্কাকে নেতৃত্ব দেবেন কুশল পেরেরা। সহঅধিনায়ক করা হয়েছে কুশল মেন্ডিসকে।

করুনারত্নে ছাড়াও অভিজ্ঞ অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস ও দিনেশ চান্দিমালসহ নিয়মিত খেলোয়াড়দের অনেকেই নেই দলে। ২০২৩ বিশ্বকাপ সামনে রেখে নতুনদের নিয়ে নতুন চেহারায় বাংলাদেশে আসছে লঙ্কানরা। দলে ফিরেছেন ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা ও ইসুরু উদানা।

আগামী ২৩, ২৫ ও ২৮ মে দিবা-রাাত্রির তিনটি ম্যাচই হবে মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।

শ্রীলঙ্কা দল: কুশল পেরেরা (অধিনায়ক), কুশল মেন্ডিস (সহঅধিনায়ক), ধানুষ্কা গুনাতিলকা, ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা, পাথুম নিশাঙ্কা, দাসুন শানাকা, আশেন বান্দারা, ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা, ইসুরু উদানা, আকিলা ধনঞ্জয়া, নিরোশান ডিকভেলা, দুশ্মন্থ চামিরা, রমেশ মেন্ডিস, আসিথা ফার্নান্দো, লক্ষ্মণ সান্দাকান, চামিকা করুণারত্নে, বিনুরা ফার্নান্দো ও শিরান ফার্নান্দো।


আরও খবর



সুবিধা বঞ্চিত ২৫০ শিশুর ঈদ জামা উৎসব

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ মে ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ মে ২০২১ | ৬৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

নোয়াখালী প্রতিনিধি

প্রতিবারের মত এবারও স্বপ্ন- এক চিলতে হাসির জন্যে নামের একটি সংগঠন সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্য স্বপ্নের ঈদ জামা উৎসব শিরোনামে অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

শনিবার (৮ মে) বিকেলে নোয়াখালী জিলা স্কুল মাঠে এই আয়োজনে ২৫০ জন দুস্থ বাচ্চাদের প্রত্যেকের মাঝে নতুন ঈদ জামা, সেমাই, চিনি, ঈদ সালামী, বিভিন্ন খাবার সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

আয়োজন প্রতিষ্ঠানের দলপতি মাইনুল হাসান শিমুলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ইসরাত সাদমীন, সহকারি কমিশনার (ভূমি) ফাতেমা সুলতানা, আবদুল মালেক উকিল মেডিকেল কলেজের সহকারী অধ্যাপক সৈয়দ মো. কামরুল হাসান, নোয়াখালী প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও দেশ রূপান্তরের নোয়াখালী প্রতিনিধি জামাল হোসেন বিষাদ, দৈনিক যায়যায়দিনের স্টাফ রিপোর্টার আবু নাছের মঞ্জু, চ্যানেল টোয়েন্টিফোরের প্রতিনিধি সুমন ভৌমিক, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী নাজমুল আলম মঞ্জু।

স্বপ্নের দলপতি মাইনুল হাসান শিমুল বলেন, ২০১৩ সাল থেকে আমরা নিয়মিত এ আয়োজন করছি। এ ছাড়া শিক্ষা বঞ্চিত শিশু এবং দরিদ্র শিক্ষার্থীদের জন্য আমাদের আরও কিছু কর্মকান্ড রয়েছে। সকলের সহযোগিতা থাকলে আমাদের আয়োজনগুলো অব্যাহত থাকবে।

নিউজ ট্যাগ: নোয়াখালী

আরও খবর



ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজতের তাণ্ডবের ঘটনায় গ্রেপ্তার আরও ৬

প্রকাশিত:শনিবার ০১ মে ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ মে ২০২১ | ৭৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
হেফাজত তাণ্ডবের স্থির ও ভিডিও চিত্র দেখে তাদের বিভিন্ন জায়গা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। শুক্রবার রাত পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে ৬ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃতদের মধ্যে জেলা ইসলামী আন্দোলনের

গত ২৬ থেকে ২৮ মার্চ হেফাজতের তাণ্ডবের ঘটনায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আরও ৬ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত ২৪ ঘন্টায় জেলা পুলিশের বিশেষ টিম বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে গ্রেপ্তার করে। জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। এ নিয়ে এ ঘটনায় গ্রেপ্তার আসামির সংখ্যা দাঁড়াল ৩৯৮ জনে।

জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইমতিয়াজ আহমেদ জানান, হেফাজত তাণ্ডবের স্থির ও ভিডিও চিত্র দেখে তাদের  বিভিন্ন জায়গা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। শুক্রবার রাত পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে ৬ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃতদের মধ্যে জেলা ইসলামী আন্দোলনের মহিলা ও পরিবার কল্যাণ সম্পাদক এবং জাতীয় শিক্ষক ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির মাদ্রাসা বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা নিয়াজল করিম রয়েছেন।

তিনি আরও জানান, হেফাজতের তাণ্ডবের ঘটনায় এ পর্যন্ত মামলা হয়েছে ৫৬টি । এর মধ্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানায় ৪৯টি, আশুগঞ্জ থানায় ৪টি, সরাইল থানায় ২টি এবং আখাউড়া রেলওয়ে থানায় ১টি । এসব মামলায়  ৪১৪ জন এজাহারনামীয় আসামি ছাড়াও অজ্ঞাতনামা আরো প্রায় ৩৫ হাজার জনকে আসামি করা হয়েছে। এ পর্যন্ত গ্রেপ্তার হয়েছে মোট ৩৯৮জন 

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর অনুষ্ঠানে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরের প্রতিবাদে গত ২৬ থেকে ২৮ মার্চ পর্যন্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ব্যাপক তাণ্ডব চালায় হেফাজতে ইসলামের কর্মীরা। ওই সময় জেলার বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি স্থাপনায় ব্যাপক ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করে তারা।


আরও খবর