Logo
শিরোনাম

‘ভালোবাসার মানুষের সাথে কথা কাটাকাটি হলে তার সঠিক সমাধান’

প্রকাশিত:সোমবার ৩১ মে ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২০ জুন ২০21 | ১১৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

দুজন মানুষ মিলে একটি সম্পর্কে দীর্ঘদিন থাকার ফলে মাঝে মধ্যে কথা কাটাকাটি বা তর্ক-বিতর্ক হতেই পারে। অনেক সময় ছোট ছোট বিষয় নিয়ে ঝামেলা হয়ে তা বিশাল সমস্যাও সৃষ্টি করে সম্পর্কের মধ্যে। এসব কারণে সম্পর্কে থাকা একজন তো অবশ্যই রেগে থাকেন। কিংবা ক্ষোভের জন্য তাৎক্ষণিক সময় ভুল সিদ্ধান্ত নেয়াও হয়। সঙ্গীর সঙ্গে বিভিন্ন সময় ঝামেলা কিংবা সমস্যা হতেই পারে, তবে তাৎক্ষণিক কোনো সিদ্ধান্ত নয়। এসব সমস্যা সমাধানে কিছু কার্যকরী উপায় তুলে ধরা হলো।

সঙ্গী কেন রেগে আছে বুঝার চেষ্টা করা : সঙ্গী কেন রেগে আছে তা অবশ্যই বুঝার চেষ্টা করতে হবে। আপনিই যে তার সুখ-দুঃখের সঙ্গী। আপনি যদি বুঝতে না চান তাহলে তার রাগ কিংবা ক্ষোভ ভেতরেই থেকে যাবে। হতে পারে এখান থেকে সম্পর্কের ইতি টানা।

অনুভূতি বুঝতে চাওয়া : প্রেমিকা ভালোবাসে আপনাকে। তাহলে তিনি কখনোই কারণ ছাড়া রাগ করবে না। অভিমান করেছে হয় তো, এর পেছনেও তো কারণ রয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে সঙ্গীর অভিমান ভাঙানোর চেষ্টা করুন। সে কি চাচ্ছে তা বুঝার চেষ্টা করুন। দেখবেন সঙ্গীর মুখে মৃদু হাসি ফুটে উঠেছে।

নিজেকে নির্দোষ ভাববেন না : নিজেরও ভুল হতে পারে। মানুষ কখনো কোনো ভুলের ঊর্ধ্বে নয়। সেদিক থেকে কোনো কারণে আপনারও ভুল হতে পারে। সঙ্গী যদি কখনো আপনার কোনো বিষয় ভুল বলে বিবেচনা করে তাহলে রেগে যাবেন না। আপনি সহজভাবে বিষয়টি নিয়ে ভাবুন। এতে আপনি ছোট হবেন না, বরং সম্পর্ক হবে আরও মজবুত।

প্রতিশ্রুতি : কখনো কোনো ভুল হয়ে থাকলে সেই ভুল মেনে নিন এবং কথা দিন যে, কখনো এমন ভুল হবে না। এতে সঙ্গী বুঝতে পারবে আপনি আপনার ভুলের জন্য অনুতপ্ত। আর ভুলগুলো মনে রাখার চেষ্টা করুন। দেখবেন পরবর্তীতে এমন ভুল হবে না।

সমাধান নিয়ে ভাবুন : প্রতিটি সমস্যারই সমাধান রয়েছে। ঝগড়া, সমস্যা ও তর্ক-বিতর্ক সম্পর্কের মাঝে থাকবেই। তাই বলে তা জটিল করবেন না। এসবের সমাধান রয়েছে। সমাধান নিয়ে ভাবুন। প্রয়োজনে সঙ্গীর সহায়তা নিন। দুজন একসঙ্গে সমাধান নিয়ে ভাবুন। সম্পর্ক গভীর হবে। সমস্যা সমাধান হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ভালোবাসাও মজবুত হবে।


নিউজ ট্যাগ: ভালোবাসার মানুষ

আরও খবর

যে ৫ খাবার লিভারের চর্বি দূর করে

বৃহস্পতিবার ১৭ জুন ২০২১




বিশ্বে করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা ৩৮ লাখ ৬৬ হাজার

প্রকাশিত:শনিবার ১৯ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৯ জুন ২০২১ | ২১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির সংখ্যা কোনোভাবেই কমছে না। সবশেষ করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৭ কোটি ৮৫ লাখ ৮৭ হাজার ১৭৭ জন। আর এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বিশ্বে মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩৮ লাখ ৬৬ হাজার ৬৪৩ জনে। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছে ১৬ কোটি ৩১ লাখ ৪ হাজার ১২৫ জন।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটার থেকে শনিবার (১৯ জুন) সকালে এই তথ্য জানা গেছে।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের সবশেষ তথ্য অনুযায়ী, করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ৪৩ লাখ ৯৩ হাজার ২৬৯ জন আর ৬ লাখ ১৬ হাজার ৯২০ জন মারা গেছেন।

করোনায় আক্রান্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে প্রতিবেশী দেশ ভারত। তবে ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের তালিকায় দেশটির অবস্থান চতুর্থ। দেশটিতে মোট আক্রান্ত ২ কোটি ৯৮ লাখ ২২ হাজার ৭৬৪ জন এবং মারা গেছেন ৩ লাখ ৮৫ হাজার ১৬৭ জন।

লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগী ১ কোটি ৭৮ লাখ ২ হাজার ১৭৬ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ৯৮ হাজার ৬২১ জনের।

নিউজ ট্যাগ: করোনাভাইরাস

আরও খবর



দেশে প্রথম জাতীয় চা দিবস আজ

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৪ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২০ জুন ২০21 | ৮৫জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

দেশে প্রথমবারের মতো জাতীয় চা দিবস উদযাপন করা হচ্ছে আজ (৪ জুন)। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের পৃষ্ঠপোষকতায় চা বোর্ডের উদ্যোগে দিবসটি উদযাপনে আয়োজন করা হয়েছে।

বিষয়টি নিয়ে গত বুধবার বাংলাদেশ চা বোর্ড আয়োজিত এক অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়। এবারের চা দিবসের প্রতিপাদ্য, মুজিব বর্ষের অঙ্গীকার, চা শিল্পের প্রসার

১৯৫৭ সালের ৪ জুন প্রথম বাঙালি হিসেবে তৎকালীন চা বোর্ডের চেয়ারম্যান হিসেবে যোগ দেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। চা বোর্ডের চেয়ারম্যান থাকাকালে এবং স্বাধীনতার পর বাংলাদেশে চা শিল্পে বঙ্গবন্ধুর অবদানকে স্মরণীয় করে রাখতে প্রতিবছর ৪ জুন চা দিবস পালনের সিদ্ধান্ত হয়।

দিবসটি উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, শুক্রবার সকালে ঢাকার ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে আলোচনা সভা ও চা প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে। এছাড়া চা উৎপাদনকারী অঞ্চল চট্টগ্রাম, সিলেট ও পঞ্চগড়ে বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

দিবসটি উপলক্ষে দেয়া এক বাণীতে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ বলেন, সুদীর্ঘ ১৮০ বছর ধরে বাংলাদেশের ইতিহাস ও ঐতিহ্যের সঙ্গে চা শিল্প গভীরভাবে জড়িয়ে আছে। দেশের সাধারণ মানুষের সামাজিকতা, সংস্কৃতি ও দৈনন্দিন জীবনের সঙ্গে চা অঙ্গাঙ্গিভাবে জড়িত। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ছিলেন চা বোর্ডের প্রথম বাঙালি চেয়ারম্যান। তিনি ৪ জুন ১৯৫৭ থেকে ২৩ অক্টোবর ১৯৫৮ পর্যন্ত চা বোর্ডের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালনকালে চা শিল্পের উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন। পরবর্তীতে দেশ স্বাধীন হওয়ার পর যুদ্ধে ক্ষতিগ্রস্ত চা শিল্পের পুনর্বাসনে অসামান্য অবদান রাখেন তিনি। এর প্রেক্ষিতে ৪ জুন জাতীয় চা দিবস পালনের উদ্যোগ বিশেষ তাৎপর্য বহন করে।

পৃথক বাণীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বর্তমানে আওয়ামী লীগ সরকার কর্তৃক গৃহীত নানাবিধ উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডের ফলে দেশে চায়ের উৎপাদন গত ১০ বছরে প্রায় ৬০ ভাগ বৃদ্ধি পেয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় ২০১৯ সালে বাংলাদেশে সর্বাধিক ৯৬ দশমিক ০৭ মিলিয়ন কেজি চা উৎপাদন হয়। চা রফতানির পুরাতন ঐতিহ্যকে ফিরিয়ে আনতে সরকার এর উৎপাদনের পাশাপাশি বিপণনের ওপরও গুরুত্বারোপ করেছে। ফলে, ২০২০ সালে ১৯টি দেশে চা রফতানি করে প্রায় ৩৫ কোটি টাকা আয় করা সম্ভব হয়েছে। আমরা চা আইন ২০১৬ প্রণয়ন করেছি।


আরও খবর



আরও ৮০ হাজার রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে নেয়া হবে

প্রকাশিত:রবিবার ০৬ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২০ জুন ২০21 | ৯৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তুচ্যুত হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া আরও ৮০ হাজার রোহিঙ্গাকে কক্সবাজার থেকে ভাসানচরে স্থানান্তরের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে সরকার।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে রবিবার সকালে কয়েকটি আন্তর্জাতিক সংস্থা প্রধান ও বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূতদের সঙ্গে বৈঠকে এ কথা জানান প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব আহমেদ কায়কাউস।

এই বৈঠকের উদ্দেশ্য ছিল জাতিসংঘ শরণার্থী সংস্থা ইউএনএইচসিআর সহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোকে রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসন ও অধিকার নিশ্চিতে আরও জোড়ালো ভূমিকা পালনের আহ্বান জানানো। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন কায়কাউস। এতে মূলত রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে আলোচনা হয়।


আরও খবর

৬ দিনের লকডাউনে টেকনাফ-উখিয়া

মঙ্গলবার ০১ জুন ২০২১




চীনে ভয়াবহ আবহাওয়ার কারনে ২০ জন দৌড়বিদ নিহত

প্রকাশিত:রবিবার ২৩ মে ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৯ জুন ২০২১ | ৯০জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

উত্তর পশ্চিম চীনে ভয়াবহ আবহাওয়ার কারণে অন্তত ২০ জন দৌড়বিদ প্রাণ হারিয়েছেন।

শনিবার ইয়েলো রিভার স্টোন ফরেস্টে ১০০ কিলোমিটার দৌড় প্রতিযোগিতায় আঘাত হানে তীব্র বাতাস আর হিমশীতল বৃষ্টি। ইয়েলো রিভার স্টোন ফরেস্ট চীনের গানসু প্রদেশের একটি পর্যটন কেন্দ্র বলে জানিয়েছে দেশটির রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম।

সিনহুয়া নিউজ এজেন্সি জানায়, ১৭২ জন অংশগ্রহণকারী নিখোঁজ হয়ে গেলে দৌড় স্থগিত করা হয়। রোববার উদ্ধারকারীরা এসব মরদেহ উদ্ধার করে।

পাহাড়ি এলাকায় সারারাত তাপমাত্রা অত্যন্ত নিম্ন থাকায় উদ্ধার কার্যক্রমও খুব কঠিন হয়ে যায় বলে জানায় সিনহুয়া।

ইয়লো রিভার স্টোন ফরেস্ট ৫০ স্কয়ার কিলোমিটারের একটি অসমতল এলাকা যেখানে দর্শনীয় সব পাথরের স্তম্ভ রয়েছে।



আরও খবর



সাভারে জোড়া খুনের প্রধান আসামী গ্রেফতার

প্রকাশিত:সোমবার ১৪ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৯ জুন ২০২১ | ১০৪জন দেখেছেন
Image

সাভার থেকে সাব্বিব হোসেন

অবশেষে সাভারে জোড়া খুনের প্রধান আসামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সোমবার ভোর রাতে সাভারের তেঁতুলঝোড়া ইউনিয়নের হেমায়েতপুর থেকে তাকে গ্রেফতার করে সাভার মডেল থানা পুলিশ। আটক খুনির নাম শাহাজালাল (২৩)।

পুলিশ জানায়, গত ১১ জুন বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে আপন দুই খালাতো ভাইকে খুন করে এই শাহজালাল। নিহতদের ফেসবুক ও মোবাইল ফোনের সূত্র ধরে প্রথমে সাত জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। পরে অনুসন্ধান করে গ্রেফতার করা হয় শাহজালালকে।

জানাগেছে, ঐ দিন সাভারের ভাকুর্তা হারুলিয়া গ্রামের নির্জন ধইঞ্চা ক্ষেতে জবাই করা আপন দুই খালাতো ভাইয়ের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এরা হচ্ছে, সাভারের যাদুর চরের রতন খানের ছেলে রায়হান (১৭ এবং রায়হানের খালাতো ভাই বরিশাল গৌরনদীর পশ্চিম শেওড়া গ্রামের নেছার মোল্লার ছেলে নাজমুল হোসেন মোল্লা (২০)। নাজমুল গত বৃহষ্পতিবার নিজ গ্রাম থেকে হেমায়েতপুর যাদুরচরে খালার বাড়িতে বেড়াতে আসে।

এ ঘটনায় নিহতদের পরিবার সেই দিনেই সাভার মডেল থানায় অজ্ঞাত আসামীদের নামে মামলা দায়ের করলে সোমবার ভোর রাতে পুলিশ হেমায়েতপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে প্রধান আসামী শাহাজালালকে আটক করে।

হেমায়েতপুর ট্যানারী পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ জাহিদুল ইসলাম জাহিদ জানান, এই হত্যাকাণ্ডের সাথে দুজন জড়িত রয়েছে। পলাতক আরেক আসামীকে গ্রেফতার করতে অভিযান অব্যাহত আছে। তবে, কি কারণে খুনিরা এই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে তা আরো তদন্তের পর জানানো যাবে।

সাভার মডেল থানার ওসি মাইনুল ইসলাম জানান, খুনি শাহজালাল পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে যে, তারা দুজন মিলে রায়হান ও নাজমুলকে ছুড়ি দিয়ে গলা কেটে হত্যা করেছে।

নিউজ ট্যাগ: জোড়া খুন পুলিশ

আরও খবর