Logo
শিরোনাম

নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে বসুন্ধরা গ্রুপ

প্রকাশিত:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৭৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে বসুন্ধরা গ্রুপ। প্রতিষ্ঠানটিতে অ্যাসিস্ট্যান্ট ম্যানেজার পদে নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহী যোগ্য প্রার্থীরা অনলাইনের মাধ্যমে সহজেই আবেদন পারবেন।

পদের নাম: অ্যাসিস্ট্যান্ট ম্যানেজার - মেকানিক্যাল।

শিক্ষাগত যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতা

স্বীকৃত যেকোনো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে ম্যাকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে ডিপ্লোমা পাস প্রার্থীরা আবেদন করতে পারবেন। প্রার্থীর তিন থেকে চার বছরের কাজের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। মাইক্রোসফট অফিসে অভিজ্ঞতা, বাংলা ও ইংরেজিতে যোগাযোগ দক্ষতা এবং চাপের মধ্যে কাজের মানসিকতা থাকতে হবে।

কর্মস্থল : বাগেরহাট।

বেতন : আলোচনা সাপেক্ষে।

আবেদনের পদ্ধতি : আগ্রহী প্রার্থীদের বিডিজবস অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে।

আবেদনের শেষ তারিখ : ২৬ নভেম্বর, ২০২১।


আরও খবর

জনবল নিয়োগ দেবে বাংলাদেশ রেলওয়ে

শুক্রবার ০৫ নভেম্বর ২০২১




বাতিল হতে পারে পাঁচ ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা

প্রকাশিত:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৬ নভেম্বর ২০২১ | ৭৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সমন্বিত পাঁচ ব্যাংকের অফিসার (ক্যাশ) নিয়োগের প্রিলিমিনারি পরীক্ষার প্রশ্নফাঁসের বিষয়ে তদন্ত করছে বাংলাদেশ ব্যাংক। প্রশ্নফাঁসের বিষয়টি প্রমাণিত হলে প্রিলিমিনারি পরীক্ষা বাতিলের সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় ব্যাংকের এক নির্বাহী পরিচালক।

বুধবার (১০ নভেম্বর) ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটির সদস্য ও কেন্দ্রীয় ব্যাংকের ঊর্ধ্বতন এক কর্মকর্তা গণমাধ্যমকে জানান, প্রশ্নফাঁসের বিষটি গুরুত্বের সঙ্গে তদন্ত করছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এটি প্রমাণিত হলে বাতিলের সম্ভাবনা রয়েছে অনুষ্ঠিত ওই পাঁচ ব্যাংকের অফিসার (ক্যাশ) নিয়োগের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা।

গত শনিবার (৬ নভেম্বর) বিকেল ৩টা থেকে ৪টা পর্যন্ত পাঁচ ব্যাংকের অফিসার (ক্যাশ) নিয়োগের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। মোট ১ হাজার ৫১১টি পদের বিপরীতে পরীক্ষায় অংশ নেন ১ লাখ ১৬ হাজার ৪২৭ জন।

পরীক্ষা ৪টার সময় শেষ হওয়ার কয়েক মিনিটের মধ্যেই ১০০টি প্রশ্নের (বাংলা-ইংরেজি-সাধাণজ্ঞান) প্রিন্ট করা সঠিক উত্তর সামাজিক মাধ্যমে পাওয়া গেছে। প্রশ্ন যদি আগেই ফাঁস না হতো তাহলে এত অল্প সময়ের মধ্যে তা সম্ভব হতো না।


আরও খবর

বিশ্ববাজারে কমেছে স্বর্ণের দাম

শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১




ফাইজারের তৈরি কোভিড পিল ৮৯ শতাংশ কার্যকর

প্রকাশিত:শনিবার ০৬ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৬৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

কোভিড চিকিৎসার জন্যে যুক্তরাষ্ট্রের ওষুধ প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান ফাইজারের তৈরি পিল বা বড়ি করোনায় আক্রান্ত হয়ে গুরুতর অবস্থায় চলে যাওয়া বয়স্কদের মৃত্যু এবং হাসপাতালে ভর্তি হওয়া এড়াতে ৮৯ শতাংশ কার্যকরী বলে প্রমাণ মিলেছে। প্যাক্সলোভিড নামের ক্ষুদ্রাকৃতির পিলটি ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে এমন কার্যকারিতা দেখিয়েছে। সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে এসব তথ্য দেওয়া হয়েছে।

ফাইজার গতকাল শুক্রবার তাদের কোভিড পিলের ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের তথ্য জানিয়েছে। প্রতিদিন দুই বারে তিনটি করে পিল টানা পাঁচদিন খাওয়ানো হয়েছে ট্রায়ালে। ভালো ফলাফল আসায় ট্রায়াল শেষ না করেই, তা স্থগিত রেখেছে বলে জানিয়েছে ফাইজার।

যা তথ্য পাওয়া গেছে, সেগুলো মার্কিন নিয়ন্ত্রণ সংস্থাগুলোতে জমা দেবেন বলে জানিয়েছেন ফাইজারের চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা অ্যালবার্ট বৌরলা। তিনি বলেছেন, পিলটি রোগীদের জীবন বাঁচাতে, কোভিড-১৯ সংক্রমণের তীব্রতা কমাতে এবং ১০ জনের মধ্যে নয় জনের হাসপাতালে ভর্তি ঠেকিয়ে দিতে সহায়তা করতে সক্ষম।

উপসর্গ দেখা দেওয়ার পরই রোগীকে ফাইজারের প্যাক্সলোভিড খাওয়ানোর কথা বলা হয়েছে।

ভাইরাসের বৃদ্ধির জন্য যে এনজাইম দরকার পড়ে, তা আটকে দেয় ফাইজারের পিল। এ কারণে একে প্রোটিজ ইনহিবিটর বলা হচ্ছে।

যুক্তরাজ্যের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলো মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অপর ওষুধ প্রস্তুতকারক কোম্পানি মার্ক সার্প অ্যান্ড ডোমের (এমএসডি) একই ধরনের ট্যাবলেটের অনুমোদন দেওয়ার পরদিনই ফাইজার তাদের ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের তথ্য জানাল।

যুক্তরাজ্য ফাইজারের অনুমোদন না পাওয়া এই প্যাক্সলোভিডের আড়াই লাখ কোর্স এবং এমএসডির তৈরি মলনুপিরাভির ট্যাবলেটের চার লাখ ৮০ হাজার কোর্সের ক্রয়াদেশ দিয়েছে।

অন্যদিকে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনও জানিয়েছেন, তাঁর দেশ এরই মধ্যে লাখ লাখ কোভিড ট্যাবলেট মজুদ করেছে।

উচ্চ ঝুঁকিতে থাকা এক হাজার ২১৯ জন কোভিড রোগীকে প্যাক্সলোভিড দেওয়া হয়। এর মধ্যে শূন্য দশমিক ৮ শতাংশ রোগীকে হাসপাতালে নিতে হয়েছে। অন্যদিকে, একই অবস্থায় থাকা যেসব কোভিড রোগীদের ডামি পিল খাওয়ানো হয়েছিল, তাঁদের সাত শতাংশকে হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়েছে।

ট্রায়ালে কোভিড উপসর্গ দেখা দেওয়ার তিন দিনের মধ্যেই রোগীদের পিল খাওয়ানো শুরু করা হয়েছে।

ডামি পিল খাওয়ানো রোগীদের সাত জন করোনায় মারা গেছেন। কিন্তু, আসল পিল খাওয়ানো রোগীদের কেউ মারা যাননি।

এ ছাড়া উপসর্গ দেখা দেওয়ার পাঁচ দিনের মধ্যে প্যাক্সলোভিডের মাধ্যমে চিকিৎসা শুরু করা রোগীদের এক শতাংশকে হাসপাতালে নিতে হয়েছে। তবে, তাঁদের মধ্যে কেউ মারা যাননি। আর ডামি পিল খাওয়ানোদের ৬ দশমিক ৭ শতাংশকে হাসপাতালে নিতে হয়েছে এবং তাঁদের মধ্যে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

তবে, ফাইজার কম ঝুঁকিপূর্ণ কোভিড রোগীদের বেলায় তাদের ট্যাবলেটের কার্যকারিতা নিয়েও গবেষণা করছে।

যুক্তরাজ্যের লিডস ইউনিভার্সিটির স্কুল অব মেডিসিনের সহযোগী অধ্যাপক ড. স্টিফেন গ্রিফিন বলেন, অ্যান্টিভাইরালের এসব সাফল্য সার্স-কোভ২-এর আক্রমণ প্রতিরোধে নতুন যুগের সূচনা করবে। গুরুতর অবস্থা নিয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন কোভিড রোগীদের জন্য এটি ব্যাপক উপকারী উপাদান হিসেবে বিবেচিত হবে।


আরও খবর



পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহারের আহ্বান সেতুমন্ত্রীর

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১ | ৫৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

পরীক্ষার্থী এবং জনগণের দুর্ভোগের বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে পরিবহণ ধর্মঘট প্রত্যাহারের আহবান জানিয়েছেন সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের

তিনি শুক্রবার সকালে তার বাসভবনে ব্রিফিংয়ে পরিবহন মালিক শ্রমিকদের প্রতি এ আহবান জানান।

ডিজেল ও কেরোসিনের দাম বৃদ্ধির পরিপ্রেক্ষিতে পরিবহণ মালিক শ্রমিকদের ডাকা ধর্মঘট আজ থেকে শুরু হয়েছে। সকাল থেকে সড়কে কোনো বাস ও পণ্যবাহী ট্রাক দেখা যাচ্ছে না। এতে অচল হয়ে পড়েছে জনজীবন। দুর্ভোগে পড়েছেন সড়কে চলাচলকারীরা।

আগামী ৭ নভেম্বর (রোববার) বিআরটিএর ভাড়া পুনঃনির্ধারন কমিটির বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে জানিয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী আজ বলেন, সেখানে সংশ্লিষ্ট স্টেক হোল্ডারদের সঙ্গে আলাপ আলোচনা করে বাস্তবভিত্তিক মূল্য সমন্বয়ের মাধ্যম জনগণের উপর বাড়তি চাপ সহনীয় পর্যায়ে রাখার চেষ্টা করা হবে।

বঙ্গবন্ধু সেতু ও মুক্তারপুর সেতুর টোলভাড়া বৃদ্ধি প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, ব্যবস্থাপনা ও রক্ষণাবেক্ষণ খরচ বৃদ্ধির কারণে অনুমোদিত যানবাহনের শ্রেণীবিন্যাস এবং টোলহার বৃদ্ধি করা হয়েছে।

মন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু সেতুতে সর্বশেষ ২০১১ সালে টোলহার বাড়ানো হয়েছিল, দীর্ঘ ১০ বছর পর এই সেতুর টোলহার বাড়ানো হয়েছে। অন্যদিকে ২০০৮ সালে মুক্তারপুর সেতু চালু হবার পর এই প্রথম সেখানে টোলহার বাড়ানো হয়েছে।

সেতুমন্ত্রী বাস্তবভিত্তিক ও যৌক্তিক হারে টোলহার বৃদ্ধির বিষয়টি মেনে নেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি অনুরোধ জানান।


আরও খবর



সীতাকুণ্ডে দুই প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ, মহাসড়ক অবরোধ

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১১ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১ | ৪৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সীতাকুণ্ডের সোনাইছড়িতে দুই ইউপি সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষের মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে ইউনিয়ন পরিষদের ভোটগ্রহণ। বৃহস্পতিবার (১১ নভেম্বর) ভোরে এ সংঘর্ষ  হয়। এসময় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে একপক্ষের সমর্থকরা।

চট্টগ্রাম জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (দক্ষিণ) কবির হোসেন বলেন, সোনাইছড়ি ইউনিয়ন পরিষদের দুই প্রার্থীর সমর্থকের মধ্যে ঝামেলা হয়। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এসময় অভিযান চালিয়ে ১০টি পেট্রোল বোমা উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় দুইজনকে আটক করা হয়েছে।

সীতাকুণ্ড থানার ওসি (তদন্ত) সুমন বণিক বলেন, দুই ইউপি সদস্য প্রার্থী মাহাবুব ও ফোরকানের সমর্থকরা ঝামেলায় জড়ায়। তবে বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। যান চলাচলও স্বাভাবিক রয়েছে। এদিকে, দ্বিতীয় দফা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সীতাকুণ্ড, ফটিকছড়ি ও মিরসরাইয়ের ৩৭ ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১১ নভেম্বর) সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। চলবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত।

ফটিকছড়ি উপজেলার ১২টি ইউনিয়ন, সীতাকুণ্ড উপজেলা ৯টি ইউনিয়ন এবং মিরসরাই উপজেলার ১৬টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। তবে ফটিকছড়ির ১টি, সীতাকুণ্ডের ৫টি এবং মিরসরাইয়ের ১৩ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান প্রার্থী বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ায় এসব ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনে হচ্ছে না।

ফটিকছড়ি উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ৪৬ হাজার ৩৬৫ জন। এদের মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৮২ হাজার ২৭৪ জন এবং মহিলা ভোটার ১ লাখ ৬৪ হাজার ৯১ জন। সীতাকুণ্ড উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা ২ লাখ ৬৪ হাজার ৯৮৯ জন। এদের মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৪১ হাজার ৩৮১ জন এবং মহিলা ভোটার ১ লাখ ২৩ হাজার ৬০৮ জন। এছাড়া,  মিরসরাই উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা ৩ লাখ ১৩ হাজার ৭৩৬ জন। এদের মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৬০ হাজার ৪২৬ জন এবং মাহিলা ভোটার ১ লাখ ৫৩ হাজার ৩১০ জন। 

ফটিকছড়ি উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. হুমায়ুন কবির বলেন, ভোটকেন্দ্রে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সদস্য মোতায়েন রয়েছে। আশা করছি সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন সম্পন্ন করতে পারবো।


আরও খবর



ড্রোন হামলা, অল্পের জন্য রক্ষা পেলেন ইরাকের প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ০৭ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১ | ৯৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ইরাকের প্রধানমন্ত্রী মুস্তাফা আল-কাদিমির বাগদাদের বাসভবনে ড্রোন হামলা হয়েছে। রবিবার ভোরে দেশটির প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে বিস্ফোরকভর্তি একটি ড্রোন হামলা চালানো হয়।

হামলায় ইরাকি প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা দলের কয়েকজন আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে দেশটির সামরিক বাহিনী। তবে প্রধানমন্ত্রী আল-কাদিমি হামলা এড়াতে সক্ষম হয়েছেন এবং তিনি নিরাপদে রয়েছেন। খবর রয়টার্সের।

ইরাকি সেনাবাহিনীর এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বাগদাদের সুরক্ষিত গ্রিন জোনে কাদিমির বাসভবন লক্ষ্য করে হামলা চালানো হয়েছে। এর থেকে বিস্তারিত কোনো তথ্য প্রদান করা হয়নি। দুই সরকারি কর্মকর্তা বলেছেন, কাদিমির বাসভবন অন্তত একটি বিস্ফোরণ ঘটেছে। সংবাদ সংস্থা রয়টার্সকে তারা নিশ্চিতভাবে জানিয়েছেন যে, প্রধানমন্ত্রী নিরাপদে আছেন।

তাৎক্ষণিকভাবে কোনো গোষ্ঠী এই হামলার দায় স্বীকার করেনি। গ্রিন জোনে বসবাসরত পশ্চিমা কূটনীতিকরা বলেছেন, তারা এলাকায় বিস্ফোরণ ও গুলির শব্দ শুনেছেন।

বাগদাদের এই গ্রিন জোন এলাকায় সরকারি ভবন এবং বিদেশি দূতাবাস রয়েছে। এটি সর্বক্ষণ নিরাপত্তার বেষ্টনীতে ঘেরা থাকে। ইরানের সঙ্গে জোটবদ্ধ সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলোর সমর্থকরা সাম্প্রতিক সপ্তাহগুলোতে গ্রিন জোনের কাছে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে। গত মাসের সাধারণ নির্বাচনের ফলাফলের বিরুদ্ধে এই প্রতিবাদ করে তারা। এই হামলার সঙ্গে সেসব গোষ্ঠী বা ইরানের কোনো যোগ আছে কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।



আরও খবর