Logo
শিরোনাম

শুভ প্রবারণা পূর্ণিমা আজ

প্রকাশিত:বুধবার ২০ অক্টোবর ২০21 | হালনাগাদ:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | ১০৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
মহামতি গৌতম বুদ্ধ একটি শান্তিপূর্ণ ও সৌহার্দ্যময় বিশ্ব গঠনে আজীবন সাম্য, মৈত্রী, মানবতা ও শান্তির অমিয় বাণী প্রচার করে গেছেন

আজ বুধবার (২০ অক্টোবর) বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের দ্বিতীয় ধর্মীয় উৎসব শুভ প্রবারণা পূর্ণিমাকঠিন চীবর দান উৎসব। এটি আশ্বিনী পূর্ণিমা নামেও পরিচিত।

বৌদ্ধদের মতে, এই পুণ্যময় পূর্ণিমা তিথিতে মহামানব গৌতম বুদ্ধ তাবতিংস স্বর্গে মাতৃদেবীকে অভিধর্ম দেশনার পর ভারতের সাংকাশ্য নগরে অবতরণ করেন। মানবজাতির সুখ, শান্তি ও কল্যাণের লক্ষ্যে দিকে দিকে স্বধর্ম প্রচারের জন্য তিনি ভিক্ষু সংঘকে নির্দেশ দেন। একই দিনে তার তিন মাসের বর্ষাবাসের পরিসমাপ্তি ঘটে।

দিবসটি উপলক্ষে ফানুস উড়ানোসহ বৌদ্ধ সম্প্রদায় নানা ধরনের উৎসবের আয়োজন করেছে। রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক পৃথক বাণীতে তাদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। বাণীতে বাংলাদেশে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির ধরে রাখার আহ্বান জানান রাষ্ট্রপতি।

মহামতি গৌতম বুদ্ধ একটি শান্তিপূর্ণ ও সৌহার্দ্যময় বিশ্ব গঠনে আজীবন সাম্য, মৈত্রী, মানবতা ও শান্তির অমিয় বাণী প্রচার করে গেছেন। তার আদর্শ ত্যাগের মহিমায় সমুজ্জ্বল ও মানবিকতায় পরিপূর্ণ। বুদ্ধের অহিংস বাণী ও জীবপ্রেম আজও বিশ্বব্যাপী বিপুল সমাদৃত।

কঠিন চীবর দানকে বলা হয় দানশ্রেষ্ঠ। বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের অংশগ্রহণে এ দানোৎসব সবার মধ্যে গড়ে তোলে ঐক্য, সংহতি ও সম্প্রীতি। ত্যাগ, সংযম, নিয়মানুবর্তিতা আর কঠোর ধ্যান সাধনার মাধ্যমে উদযাপিত কঠিন চীবর দান ভক্তদের বৌদ্ধের প্রকৃত অনুসারী হিসেবে গড়ে তুলতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। বাংলাদেশের মাটি ও মানুষের সঙ্গে মিশে আছে হাজার বছরের বৌদ্ধ ঐতিহ্য। এ দেশের বিভিন্ন স্থানে প্রাচীন বৌদ্ধবিহারের উজ্জ্বল স্বাক্ষর বহন করছে।


আরও খবর

শ্যামাপূজা আজ, হচ্ছে না দীপাবলির উৎসব

বৃহস্পতিবার ০৪ নভেম্বর ২০২১

লক্ষ্মীপূজা আজ

বুধবার ২০ অক্টোবর ২০21




বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ৫২ লাখ ছাড়ালো

প্রকাশিত:শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৩২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

মহামারি করোনায় আক্রান্ত হয়ে বিশ্বে গত ২৪ ঘণ্টায় ৬ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছেন। একই সময়ে করোনা শনাক্ত হয়েছে সাড়ে ৫ লাখের বেশি।। এ নিয়ে বিশ্বে করোনায় প্রাণ গেলো ৫২ লাখের বেশি মানুষের।

আন্তর্জাতিক জরিপকারী সংস্থা ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্য মতে, শনিবার (২৭ নভেম্বর) সকাল পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৫২ লাখ ৬ হাজার ২৬০ জন। আর এখন পর্যন্ত করোনা শনাক্ত হয়েছে ২৬ কোটি ৮ লাখ ৭৬ হাজার ৪৫৪ জনের। সারাবিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর সুস্থ হয়েছেন ২৩ কোটি ৫৬ লাখ ৭৫ হাজার ৪৪৮ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৬ হাজার ৩৩৭ জন। এর আগের দিন করোনায় মারা ৭ হাজার ২৯৭ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত হয়েছে ৫ লাখ ৬৯ হাজার ৮৩৩ জনের। এর আগের দিন করোনা শনাক্ত হয় হয়েছে হয়েছে ৫ লাখ ৯০ হাজার ৩৭৪ জনের।

করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৪ কোটি ৯০ লাখ ৫০ হাজার ৪০৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ৭ লাখ ৯৯ হাজার ১৩৭ জন মারা গেছেন। এছাড়া, ভারতে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৩ কোটি ৪৫ লাখ ৫৫ হাজার ৪৩১ জন এবং মারা গেছেন ৪ লাখ ৬৭ হাজার ৪৬৮ জন।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর গত বছরের ১১ মার্চে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে বৈশ্বিক মহামারি হিসেবে ঘোষণা করে।


আরও খবর



রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা চেয়ে বিদেশ যেতে পারেন খালেদা: হানিফ

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৬ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৪১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠাতে আন্দোলন করে আসছে বিএনপি। এ অবস্থায় আওয়ামী লীগের সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেছেন, খালেদা জিয়া একজন সাজাপ্রাপ্ত আসামি। সে হিসেবে তিনি রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা চাইতে পারেন। যদি রাষ্ট্রপতি ক্ষমা করে দেন তাহলে তিনি বিদেশ যেতে পারবেন।

আজ শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবে আয়োজিত একটি আলোচনা সভায় বক্তব্য দিতে গিয়ে এসব কথা বলেছেন মাহবুব উল আলম হানিফ। বিশ্ব সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদ ও হলি আর্টিজান-মুম্বাই হামলা’ শীর্ষক এই আলোচনা সভার আয়োজন করে বাংলাদেশ অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট ফোরাম (বোয়াফ)।

আওয়ামী লীগের এই সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, দেশে জঙ্গীবাদের উত্থান শুরু হয়েছিল খালেদা জিয়ার হাত ধরে। তিনি ক্ষমতায় থাকাকালে হাওয়া ভবনে জঙ্গী হামলার পরিকল্পনা হয়েছে। সারাদেশে একযোগে সিরিজ বোমা হামলাও আমরা দেখেছি। বাংলা ভাই প্রকাশ্যে মিছিল করেছে। বিএনপির মদদেই এসব সম্ভব হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ১৯৭৫ সালে ইতিহাসের নৃসংশ হত্যাকাণ্ডের পর বাংলাদেশ উল্টো পথে হাটতে শুরু করে। যে অসাম্প্রদায়িক চেতনা নিয়ে মানুষ মুক্তিযুদ্ধে জড়িয়ে পড়েছিল, সেখান থেকে দেশকে বিচ্যুত করা হয়েছে। পাকিস্তানি ভাবাদর্শ কায়েমের চেষ্টা চালিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেই অবস্থা বাংলাশে আওয়ামী লীগ দেশকে আবার মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় ফিরিয়ে আনে।

বোয়াফ সভাপতি কবীর চৌধুরী তন্মযয়ের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় অংশ নেন পরিষদের সাবেক সদস্য অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম এমপি, জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি ও তথ্য সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের স্থায়ী কমিটির সদস্য মুহাম্মদ শফিকুর রহমান এমপি, স্বাধীনতার ঘোষণাপত্র রচয়িতা ও স্বাধীন বাংলাদেশের অন্যতম সংবিধান প্রণেতা ব্যারিস্টার আমির-উল ইসলাম, আপিল বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী মানিক, রাজনীতি ও নিরাপত্তা বিশ্লেষক বীর মুক্তিযোদ্ধা মেজর জেনারেল (অব) মোহাম্মদ আলী সিকদার, নিরাপত্তা বিশ্লেষক ও ইনস্টিটিউট অব কনফ্লিক্ট, সিনিয়র সাংবাদিক ও সাবেক সভাপতি বিএফইউজের সাবেক সভাপতি মনজুরুল আহসান বুলবুল প্রমুখ।


আরও খবর

হেফাজত মহাসচিব লাইফ সাপোর্টে

রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১




সাত কলেজের ভর্তির পরীক্ষার ফল প্রকাশ

প্রকাশিত:বুধবার ১৭ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | ৫৮জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত সরকারি সাত কলেজের কলা ও সামাজিক বিজ্ঞান ইউনিট এবং গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজগুলোর ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মো. আখতারুজ্জামান এই ফল প্রকাশ করেন।

সাত কলেজের কলা ও সামাজিক বিজ্ঞান ইউনিটে ২১ হাজার ১৩২ জন পরীক্ষার্থী অংশ নিয়ে ১৪ হাজার ৩৮২ জন উত্তীর্ণ হয়েছে। পাসের হার ৬৭ দশমিক ৯০ শতাংশ।

তাদের মধ্যে ১১ হাজার ৯০৫ শিক্ষার্থী মেধাক্রম অনুযায়ী রাজধানীর সরকারি সাতটি কলেজের বিভিন্ন বিভাগে ভর্তির সুযোগ পাবেন। গত ১৩ নভেম্বর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ সাত কলেজে এই ভর্তি পরীক্ষা হয়।

কলা ও সামাজিক বিজ্ঞান ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় ১২০ নম্বরের মধ্যে ১০৭ পেয়ে প্রথম হয়েছে ঢাকার দারুননাজাত সিদ্দিকীয়া কামিল মাদরাসা থেকে আলিম পাস করা মো. নাজমুল ইসলাম।

ঠাকুরগাঁও সরকারি কলেজ থেকে আসা মো. আবু কাউসার ১০৬ নম্বর পেয়ে দ্বিতীয় এবং মিরপুর  সরকারি বাংলা কলেজ থেকে আসা রাকিব হোসেন ১০৫ দশমিক ৯৪ নম্বর পেয়ে তৃতীয় হয়েছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন পাঁচটি গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজের ভর্তি পরীক্ষায় ৫ হাজার ৫৪৫ জন অংশ নিয়ে ৪ হাজার ৪৯৫ জন উত্তীর্ণ হয়েছে। পাসের হার ৮১ দশমিক ০৬ শতাংশ। এর মধ্যে বিজ্ঞান শাখায় ২ হাজার ৩০, মানবিক বিভাগে ১ হাজার ৫৯৪,  ব্যবসায় ৮২১ এবং গার্হস্থ্য অর্থনীতি শাখায় ৫০ জন পাস করেছে।

তবে তাদের মধ্যে ২ হাজার ৬৫৫ জন শিক্ষার্থী মেধাক্রম অনুযায়ী ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন পাঁচটি গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজের বিভিন্ন বিভাগে ভর্তি হওয়ার সুযোগ পাবে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা অনুষদের ডিন অধ্যাপক আবু মো. দেলোয়ার হোসেন, জীব বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক মিহির লাল সাহা এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের অনলাইন ভর্তি কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক মোস্তাফিজুর রহমানসহ সরকারি সাত কলেজ ও গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজগুলোর অধ্যক্ষরা সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



পাকিস্তান শিবিরে তাইজুলের জোড়া আঘাত

প্রকাশিত:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ২৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চট্টগ্রাম টেস্টের প্রথম দিনটা বাংলাদেশের হলে দ্বিতীয়দিনটা পাকিস্তানের। একটি উইকেটও ফেলতে পারল না স্বাগতিকরা।

লিটন অবশ্য মনে করছেন, ম্যাচের মোড় ঘুরলে বিস্ময়ের কিছু থাকবে না। দুই দলই সমানে সমান। আর লিটনের কথায় যেন আত্মবিশ্বাসী হয়ে উঠলেন স্পিনার তাইজুল।

দিনের প্রথম ওভারেই তাইজুল জোড়া আঘাত হানলেন পাকিস্তান শিবিরে। ১ রানেই ২ উইকেট হারাল পাকিস্তান।

৫৮তম ওভারের পঞ্চম বলে আব্দুল্লাহ শফিককে গুড লেন্থে বলটা করেছিলেন তাইজুল। খানিকটা জায়গা বানিয়ে খেলতে চেয়েছিলেন পাকিস্তান ওপেনার। তবে বলটা তার ব্যাটে যাওয়ার আগেই ছুঁয়ে গেছে প্যাড। বাংলাদেশের জোরালো আবেদনে সাড়া দেন আম্পায়ার।

নতুন ব্যাটার আজহার আলীকে এর ঠিক পরের বলটা তাইজুল করেছিলেন লেগ স্টাম্পে। সামনে ঝুঁকে ডিফেন্ড করতে চেয়েছিলেন আজহার। কিন্তু বলের লাইন মিস করে গেছেন। বলটা তার ব্যাটের বাইরের কোণা এড়িয়ে গিয়ে সরাসরি আঘাত হানে প্যাডে। বাংলাদেশের আবেদনে শুরুতে সাড়া দেননি আম্পায়ার। তবে রিভিউতে সফলতা ধরা দেয় টাইগারদের হাতে।

খেলার এই পর্যায়ে ব্যাট হাতে নেমেছেন অধিনায়ক বাবর আজম।  অন্যপ্রান্তে সেঞ্চুরির দুয়ারে আবিদ আলি।  ১৯৬ বল খেলে ৯৪ রানে অপরাজিত এই ওপেনার।

 

 


আরও খবর

সারাদিন কেবল হতাশই হলো বাংলাদেশ

শনিবার ২৭ নভেম্বর ২০২১




একাধিক সন্তানের স্বপ্ন দেখছেন কঙ্গনা

প্রকাশিত:শুক্রবার ১২ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৭৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিতর্ক তাঁর নিত্যসঙ্গী। সম্প্রতি ঝুলিতে এসেছে চতুর্থ জাতীয় পুরস্কার। কঙ্গনা রানাউত নতুন ছবি, অভিনয় নিয়ে আরও বেশি ভাববেন, সেটাই স্বাভাবিক। কিন্তু বলিউডের কুইন তার থেকে সাত হাত দূরে! উল্টে রানির চোখে সংসার-সন্তানের স্বপ্ন। চাইছেন, তাঁর জীবনে এমন কেউ আসবেন, যিনি তাঁর ভাল-মন্দ মেনে নিয়েই ভালবাসবেন। তবে কি বিয়ের ফুল ফুটতে চলেছেন কঙ্গনার?

এক্ষুণি না হলেও আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে যে তিনি ঘরে-বরে থিতু হবেন, এমনই ইঙ্গিত দিয়েছেন মণিকর্ণিকা। বলিউড সংবাদমাধ্যম তাঁর বিয়ে, সন্তান, সংসার নিয়ে জানতে চেয়েছিল। জবাবে অভিনেত্রী বলেন, আগামী পাঁচ বছরে সব হবে। আমিও সংসারী হতে চাই। একাধিক সন্তানের মা হতে চাই। স্বপ্ন দেখি, আমার সাজানো সংসার আগলাবে আমার স্বপ্নের পুরুষ। যে ভালয়-মন্দয় ঘিরে থাকবে আমায়।

তবে কি স্বপ্নে দেখা রাজপুত্রের সন্ধান পেয়েই গিয়েছেন কঙ্গনা?

সাংবাদিকদের প্রশ্নে সঙ্গে সঙ্গে সংযত থালাইভি। ছোট্ট উত্তরে জানালেন, স্বপ্নের পুরুষের সন্ধান পেয়েছেন তিনি। খুব শীঘ্রই তাঁর কথা জানবেন সকলে।

 

 


আরও খবর