Logo
শিরোনাম

রোমান্টিক হওয়ার সহজ উপায়

প্রকাশিত:রবিবার ৩০ মে ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২০ জুন ২০21 | ১১৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
ঘরবন্দি সময়ে তো এটা আরও বেশি অনুভব হয়। তাই মাঝে মধ্যেই ক্যান্ডেলনাইট ডিনার, আয়নার সামনে ‘চিরকুটে’ প্রেমের বার্তাসহ অন্যান্য পছন্দের কাজ করে চমকে দিন সঙ্গীকে

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের জন্য ২০২০ সালের মার্চ থেকে অফিস-আদালতসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান বন্ধ। তবে কঠোর স্বাস্থ্যবিধি জারি করে সীমিত আকারে কিছু কিছু অফিস-আদালতসহ অন্যান্য প্রতিষ্ঠান খোলা রাখা হয়েছে। চরম সত্য যে, করোনা সংক্রমণ আসার পর মানুষজন এখন আগের মতো বেশি সময় বাইরে থাকছে না। অধিকাংশ সময়ই বাসা-বাড়িতে সময় কাটান। আর এই দীর্ঘ সময় সঙ্গীর সঙ্গে থাকতে থাকতে বিরক্ত হওয়া স্বাভাবিক। অনেকের ক্ষেত্রে আবার তর্ক-বিতর্ক থেকে ছোট ছোট ঝগড়াও হচ্ছে।

কোনো সম্পর্কই সহজ নয়। একটি সম্পর্ক টিকিয়ে রাখার জন্য দুজনকেই ত্যাগ স্বীকার করতে হয়। লকডাউনের এই সময় সম্পর্ক মজবুত করতে দুজনকেই বেশ কিছু উপায় অবলম্বন করতে হবে। এতে করে সম্পর্ক যেমন মধুর হবে তেমনই দুজনের মধ্যে বাড়বে প্রেম-ভালোবাসা।

একান্তে সময় কাটানো : সারাদিন একসঙ্গে থাকার পরও কি দুজনের একান্তে সময় কাটানো হচ্ছে না। সর্বক্ষণ হয় তো যার যার মতো বাসা-বাড়ি বা অফিসের কাজ করছেন। অবসরে অনলাইনে ড্রামা-সিরিয়াল ইত্যাদি নিয়ে ব্যস্ত। আবার টেবিলে বসে খাওয়ার সময় হাতে ফোন। এসব সময় থেকে কিছু সময় বের করে দুজন একসঙ্গে কিছুক্ষণ সময় কাটান। দুজন একসঙ্গে চা বা কফি খাওয়া, হাতে হাত রেখে হাঁটা কিংবা বাসা-বাড়ির বাইরে একটু ঘুরে আসা। এতে পরস্পর ভালোবাসা বাড়বে।

চমক দেয়া : যেকোনো কিছুর শুরুতে অনেক চমক থাকে। নতুন সম্পর্কের শুরুতে সঙ্গীকে চেনা-জানা এসবই নতুন অভিজ্ঞতা। আর এসবের প্রতি খুবই আগ্রহ থাকে তখন। তবে সম্পর্ক যখন গভীর হয় তখন এসব ধীরে ধীরে হারিয়ে যায়। আর ঘরবন্দি সময়ে তো এটা আরও বেশি অনুভব হয়। তাই মাঝে মধ্যেই ক্যান্ডেলনাইট ডিনার, আয়নার সামনে চিরকুটে প্রেমের বার্তাসহ অন্যান্য পছন্দের কাজ করে চমকে দিন সঙ্গীকে।

একসঙ্গে নতুন কিছু করা : অবসর সময়ে দুজন আলাদা আলাদা না থেকে একসঙ্গে কিছু করার পরিকল্পনা করুন। হতে পারে সঙ্গীকে রান্নায় সহযোগিতা করা, দুজনে গল্প করা, অনলাইনে কোনো কিছু শেখা, বাগানের যত্ন নেয়া ও বাসা-বাড়ির দেয়াল একসঙ্গে সাজিয়ে তোলা। দেখবেন দুজনের মধ্যেই স্বস্তির হাসি ফুট উঠবে।

ডেট করা : ডেট করা বলা মানে এই নয় বাসা-বাড়ির বাইরে যেতে হবে। বারান্দা বা ছাদও হয়ে উঠতে পারে এই রোমাঞ্চের জায়গা। মোমবাতির হালকা আলোয় একজন অপরজনকে ঝাপটে ধরুন। কপালে চুমু দিন। এসময় সঙ্গীর সঙ্গে ফ্লার্ট করা একদম বন্ধ করা যাবে না। এতে মনের সকল ক্ষোভ দূর হয়ে যাবে।


আরও খবর

যে ৫ খাবার লিভারের চর্বি দূর করে

বৃহস্পতিবার ১৭ জুন ২০২১




৫০তম বাজেট দিতে যাচ্ছেন অর্থমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৩ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৯ জুন ২০২১ | ৬৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতার কারণে করোনা পরিস্থিতির মধ্যে কঠোর সতর্কতা মেনে জাতীয় সংসদের বাজেট (ত্রয়োদশ) অধিবেশন শুরু হয়েছে। গতকাল বুধবার স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে শুরু হওয়া অধিবেশন শোক প্রস্তাব গ্রহণ শেষে মুলতবি করা হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টায় অধিবেশনে ২০২১-২০২২ অর্থবছরের বাজেট প্রস্তাব উত্থাপন করবেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। সংসদে ৬ লাখ ৩ হাজার ৬৮১ কোটি টাকার বাজেট উপস্থাপন করবেন তিনি। এটি মোট জিডিপির ১৭ দশমিক ৪৭ শতাংশ। আর চলতি সংশোধিত বাজেটের তুলনায় নতুন বাজেটের আকার বাড়ছে ৬৪ হাজার ৬৯৮ কোটি টাকা।

প্রস্তাবিত বাজেট নিয়ে আলোচনা শেষে আগামী ২৯ জুন অর্থ বিল ও ৩০ জুন বাজেট পাস হবে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারের টানা তৃতীয় মেয়াদের তৃতীয় বাজেট এটি। জীবন-জীবিকায় প্রাধান্য দিয়ে সুদৃঢ় আগামীর পথে বাংলাদেশ শিরোনামের এবারের বাজেটটি প্রস্তুত হয়েছে সরকারের অতীতের অর্জন এবং উদ্ভূত বর্তমান পরিস্থিতির সমন্বয় ঘটিয়ে।

করোনাভাইরাসের কারণে সবচেয়ে কমসংখ্যক সংসদ সদস্যের উপস্থিতিতে দেশের ৫০তম বাজেট ঘোষণা করা হবে। যাঁরা উপস্থিত থাকবেন তাঁদের মানতে হবে স্বাস্থ্যবিধি। সবাইকে বাধ্যতামূলকভাবে মাস্ক ও হ্যান্ড গ্লাভস ব্যবহার করতে হবে। স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে একটি করে আসন ফাঁকা রেখে আসন বিন্যাস করা হবে। যাঁরা শারীরিকভাবে অসুস্থ তাঁদের সংসদে আসতে নিষেধ করা হবে। বাজেট অধিবেশনে উপস্থিত থাকবেন না কোনো সাংবাদিক কিংবা বিশিষ্টজনরা।

বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, এবারের পুরো বাজেটটি এমনভাবে করা হয়েছে, যাতে জীবন ও জীবিকা দুটিকেই সমানভাবে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। বাজেটে প্রান্তিক মানুষকে স্বস্তি দেওয়ার চেষ্টা যেমন থাকবে, তেমনি থাকছে নানা ছাড়।

বাজেটে জিডিপি প্রবৃদ্ধি ধরা হয়েছে ৭.২ শতাংশ। আর মূল্যস্ফীতি ৫.৩ শতাংশের মধ্যে সহনীয় পর্যায়ে রাখার পরিকল্পনা করা হচ্ছে।



আরও খবর



পাবনায় ২ আ. লীগ নেতার অস্ত্রের লাইসেন্স বাতিল

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৭ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২০ জুন ২০21 | ৬৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image
কয়েকজন ঠিকাদার আওয়ামী লীগ নেতার অস্ত্র নিয়ে গণপূর্ত ভবনে প্রবেশের ঘটনা তদন্তে অস্ত্র আইনের শর্ত ভঙ্গ হয়েছে জানিয়ে প্রতিবেদন দিয়েছে পুলিশ

পাবনায় গণপূর্ত ভবনে অস্ত্র নিয়ে ঠিকাদার আওয়ামী লীগ নেতাদের মহড়ার ঘটনায় প্রদর্শিত দুটি শটগানের লাইসেন্স বাতিল করেছে জেলা প্রশাসন। মঙ্গলবার এসব অস্ত্রের লাইসেন্স বাতিলের সুপারিশ করে জেলা প্রশাসক বরাবর প্রতিবেদন দেয় পুলিশ।

পাবনার ডিসি কবীর মাহমুদ জানান, বুধবার বিকালে লাইসেন্স বাতিলের পর বৃহস্পতিবার সকালে এ বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের চিঠি দেওয়া হয়েছে।

সম্প্রতি পাবনার গণপূর্ত ভবনে অস্ত্র নিয়ে মহড়া দেন স্থানীয় কয়েকজন ঠিকাদার আওয়ামী লীগ নেতা। গণপূর্ত ভবনের সিসিটিভি ক্যামেরায় ধারণ করা সেসব ছবিসহ খবর গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে এ নিয়ে চাঞ্চল্য দেখা দেয়। পুলিশ জব্দ করে আওয়ামী লীগ নেতাদের দুটি আগ্নেয়াস্ত্র।

ডিসি বলেন, কয়েকজন ঠিকাদার আওয়ামী লীগ নেতার অস্ত্র নিয়ে গণপূর্ত ভবনে প্রবেশের ঘটনা তদন্তে অস্ত্র আইনের শর্ত ভঙ্গ হয়েছে জানিয়ে প্রতিবেদন দিয়েছে পুলিশ। বৈধ অস্ত্রের অবৈধ ব্যবহার হওয়ায় লাইসেন্স বাতিলের সুপারিশও করা হয় প্রতিবেদনে। এই পরিপ্রেক্ষিতে এ আর খান মামুন ও শেখ আনোয়ার হোসেন লালুর নামে ইস্যু করা শটগানের লাইসেন্স বাতিল করা হয়েছে।

এ আর খান মামুন পাবনা পৌর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। আর শেখ আনোয়ার হোসেন লালু জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য।

পাবনার পুলিশ সুপার মহিবুল ইসলাম খান বলেন, পাবনা গণপূর্ত দপ্তরে ঠিকাদার আওয়ামী লীগ নেতাদের প্রবেশের ঘটনা জানার পরই বিষয়টি তদন্ত শুরু করে পুলিশ। গণপূর্ত কর্মকর্তারা লিখিত অভিযোগ না করলেও পুলিশ উদ্যোগ নিয়ে ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করে বিষয়টি তদন্ত শুরু করে। ঠিকাদারদের প্রদর্শিত অস্ত্রও জব্দ করা হয়। সিসিটিভি ফুটেজ পর্যালোচনা করে ও সংশ্লিষ্ট সবার সঙ্গে কথা বলে অস্ত্র আইনের শর্তভঙ্গের বিষয়টি নিশ্চিত হয়েছে পুলিশ। বৈধ অস্ত্রের অবৈধ ব্যবহারের প্রমাণ মেলায় প্রদর্শিত অস্ত্রগুলোর লাইসেন্স বাতিলের সুপারিশ করা হয়।

জেলা প্রশাসন লাইসেন্স বাতিল করায় জব্দ করা অস্ত্রগুলো সরকারের সম্পত্তি হিসেবে বিবেচিত হবে বলে তিনি জানান।

নিউজ ট্যাগ: গণপূর্ত বিভাগ

আরও খবর



লবণবাহী ট্রাকে তল্লাশি চালিয়ে ৪৮ হাজার ইয়াবা উদ্ধার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৫ মে ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২০ জুন ২০21 | ৪৯জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

চট্টগ্রামের পটিয়ায় লবণবাহী ট্রাকে তল্লাশি চালিয়ে ৪৮ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ সময় চালক ও তাঁর সহকারীকে (হেলপার) গ্রেপ্তার করা হয়।

পটিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম মজুমদার বলেন, গতকাল সোমবার রাত সাড়ে ৯টায় চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের পটিয়ার কমল মুন্সীরহাট এলাকায় এ অভিযান চালানো হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন ট্রাকের চালক মোহাম্মদ মাসুম মিয়া (৩৯) ও তাঁর সহকারী আলো হোসেন (৩১)। দুজনের বাড়ি ময়মনসিংহের কোতোয়ালি থানার ১৯ নম্বর ওয়ার্ডের বলাশপুর এলাকায়।

পুলিশ জানায়, কক্সবাজার থেকে ইয়াবার চালান আসছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে কমল মুন্সীরহাট এলাকায় মহাসড়কে চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশি চালায় পুলিশ। এ সময় লবণবোঝাই একটি ট্রাক দ্রুত পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে ট্রাকটিকে থামিয়ে তল্লাশি করা হয়। তল্লাশির পর ট্রাকে লুকানো ৪৮ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। যার বাজারমূল্য আনুমানিক প্রায় এক কোটি ৪৪ লাখ টাকা।

নিউজ ট্যাগ: ইয়াবা উদ্ধার

আরও খবর



শিক্ষা আইন চূড়ান্ত, শিগগিরই যাচ্ছে মন্ত্রিপরিষদে : শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত:বুধবার ০৯ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৯ জুন ২০২১ | ৯৬জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

শিক্ষা আইনের খসড়া চূড়ান্ত হয়েছে, শিগগিরই এটি মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে পাঠানো হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।  বুধবার (৯ জুন) চাইল্ড পার্লামেন্টে সেশন ২০২১ অনুষ্ঠানে অংশ নিয়ে তিনি এ কথা জানান।

চাইল্ড পার্লামেন্টের উত্থাপিত এক প্রস্তাবের পরিপ্রেক্ষিতে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, আমরা শিক্ষা আইন দীর্ঘদিন ধরে করার চেষ্টা করছি। সেই শিক্ষা আইনের খসড়াটি করোনাকালেই চূড়ান্ত করেছি। এখন মন্ত্রিপরিষদে যাবে। এরপর আরও কয়েকটি প্রক্রিয়া আছে, সেগুলো সম্পন্ন করে পার্লামেন্টে যাবে। সংসদে পাস হয়ে গেলে আমরা আইনটি বাস্তবায়ন করতে পারবো।

চাইল্ড পার্লামেন্টে অনলাইন শিক্ষাসহ শিক্ষার বিভিন্ন সমস্যা এবং বাংলাদেশের নেওয়া পদক্ষেপের তথ্য উঠে আসে। চাইল্ড পার্লামেন্টে বিভিন্ন প্রস্তাবনা ও সমস্যা সমাধানের বিষয় তুলে ধরেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

চাইল্ড পার্লামেন্টে অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, অন্যের জরিপ নয়, নিজেরা জরিপ করে প্রকৃত অবস্থা তুলে ধরতে হবে। সমস্যা সমাধানের জন্য সুপারিশ করতে হবে।

অনুষ্ঠানে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ড. সৈয়দ মো. গোলাম ফারুক চাইল্ড পার্লামেন্টে উত্থাপিত বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন।


আরও খবর



তথ্যে নতুন সচিব, খাজা মুক্তিযুদ্ধে, তপন গেলেন বাণিজ্যে

প্রকাশিত:রবিবার ৩০ মে ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৯ জুন ২০২১ | ১০৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

পদোন্নতি ও বদলির মাধ্যমে তিন মন্ত্রণালয়ের সচিব রদবদল করে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের বর্তমান সচিব খাজা মিয়াকে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব হিসেবে বদলি করা হয়েছে।

রবিবার পৃথক প্রজ্ঞাপন জারি করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।

পৃথক প্রজ্ঞাপনে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অধীন যৌথ মূলধন কোম্পানি ও ফার্মসমূহের পরিদপ্তরের নিবন্ধক (অতিরিক্ত সচিব) মো. মকবুল হোসেনকে পদোন্নতি দিয়ে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সচিব করা হয়েছে। আর মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব তপন কান্তি ঘোষকে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব হিসেবে বদলি করা হয়েছে।


আরও খবর