Logo
শিরোনাম

যেভাবে পুরো পরিবারকে হত্যার পরিকল্পনা করেন ফারহান

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৫ জুন ২০২১ | ১৩৩জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের ডালাসের নিকটস্থ অ্যালেন শহরে বাংলাদেশি একটি পরিবারের চার সদস্যকে মর্মান্তিকভাবে হত্যার পর দুই ভাইয়ের আত্মহত্যার মূল পরিকল্পনাকারী ছিল ফারহান তৌহিদ। ফারহান তৌহিদ দীর্ঘদিন ধরেই বিষন্নতায় ভুগছিলেন বলে তাদের পারিবারিক ও স্থানীয় বাংলাদেশিদের একটি সূত্রে জানা গেছে।

টেক্সাসের স্থানীয় সময় সোমবার (৫ এপ্রিল) সকালে দুই ভাই মিলে তাদের মা আইরিন ও বাবা তৌহিদুল ইসলামসহ নানী এবং একমাত্র বোনকে হত্যার পর নিজেরাও আত্মহত্যা করেছে। ঘটনার পর অ্যাপার্টমেন্ট থেকে পুলিশ ৬ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করেন।

এ ঘটনার মূল পরিকল্পনাকারী ফারহান তৌহিদের ফেসবুকের স্ট্যাটাস পর্যালোচনা করে অ্যালেন সিটি পুলিশের সার্জেন্ট জন ফেলী জানান, সম্ভবত গত শনিবার এমন নৃশংসতার ঘটনা ঘটে। ১৯ বছর বয়সী একজনের এই পরিস্থিতির আলোকপাত করা হয়েছে। পুলিশের মতে আত্মহত্যার নোটে রয়েছে হতাশার ধারা বিবরণী।

তবে স্থানীয়রা জানিয়েছেন কোনো কারণে হয়তো তৌহিদুল ইসলামের দুই পুত্রই মন মরা ভাব বা বিষন্নতায় ভুগছিলেন। আত্মহত্যার সেই নোটে ফারহান উল্লেখ করেছেন ২০১৬ সালে নবম গ্রেডে পড়া অবস্থায় সে বিষন্নতায় আক্রান্ত হয় বলে চিকিৎসকরা জানায়। এজন্য সে পরীক্ষায় বারবার ফেল করে। আজ সে নিজের শরীরে দুইবার কেটেছে। খুবই কষ্ট পেয়েছে। তার মনে আছে ২০১৭ সালের ২২ আগস্ট, কাঁচির মতো ধারালো অস্ত্র দিয়ে নিজের শরীরে কেটেছিল। সে অনুভব করেছে কতটা অসহনীয় যন্ত্রণা। এরপর প্রায় দিনই শরীরে রান্নাঘরের চাকু দিয়ে কাটে। বিষন্নতার দুঃখবোধ লাঘবের পথ খুঁজেছিল সে। এ অবস্থায় তার ঘনিষ্ঠ তিন বন্ধু তাকে ত্যাগ করেছে। এমনি হতাশার মধ্যেই তাকে ভর্তি করা হয় ইউনিভার্সিটি অব অস্টিনে কম্পিউটার সায়েন্স ডিপার্টমেন্টে। এরপর সে ভাবে যে, এবার জীবনটা সঠিক ট্র্যাকে উঠেছে। বাস্তবে তা ঘটেনি। বিষন্নতায় জর্জরিত হয়ে পুনরায় সে নিজের শরীর রক্তাক্ত করে এবং কাঁদতে কাঁদতে বিছানায় ঘুমাতে যায়। সান্ত্বনা খোঁজে যে, সে সুস্থ হয়েছি। অন্যদের মতোই স্বাভাবিক। কিন্তু সেটি সত্য বলে কখনোই মনে হয়নি তার। এক পর্যায়ে সে লিখেছে, যদি আত্মহত্যা করি তাহলে গোটা পরিবার সারাটি জীবন কষ্ট পাবে। সেটি সে চায় না। সেজন্য পরিবারের সকলকে নিয়ে মারা যাবার চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে ভাইকে শমিল করেন। দুইভাই যায় বন্দুক ক্রয় করতে। সে হত্যা করবে ছোটবোন আর নানীকে। আর তার ভাই করবে মা-বাবাকে। এরপর উভয়ে আত্মহত্যা করবে এমন একটি সিদ্ধান্ত নেয় তারা। কেউ থাকবে না কষ্ট পাবার।

আত্মহত্যার প্রাক্কালে লেখা ওই নোটে সে আরও উল্লেখ করেছে যে, বন্দুক ক্রয়ের ব্যাপারটি খুবই সহজ। তার ভাই গেলেন দোকানে। বললেন যে, বাড়ির নিরাপত্তার জন্যে বন্দুক দরকার। দোকানি কয়েকটি ফরম ধরিয়ে দিলেন সেখানে স্বাক্ষর করলেন ভাই। এরপর হাতে পেয়ে যায় কাঙ্ক্ষিত বস্তুটি, যা দিয়ে নিজের কষ্ট এবং পরিবারের কষ্ট সহজ করতে মা আইরিন ও বাবা তৌহিদুল ইসলামসহ নানী এবং একমাত্র বোনকে তারা নির্মমভাবে হত্যা করে নিজেরা আত্মহত্যা পথ বেছে নেয়।

তৌহিদুল ইসলামের দেশের বাড়ি পাবনা জেলার দোহার পাড়ায় বলে জানা গেছে। তিনি হায়দার পরিবার (জিয়া হায়দার ও রশিদ হায়দার)-এর নিকট আত্মীয় বলে জানা গেছে।


আরও খবর



পরিকল্পনামন্ত্রীর মোবাইল ছিনতাই

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০১ জুন ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৫ জুন ২০২১ | ৭৭জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নানের মোবাইল ফোন ছিনতাই হয়েছে। রাজধানীর বিজয় স্মরণী থেকে রবিবার (৩০ মে) সন্ধ্যায় জ্যামে আটকা থাকা অবস্থায় মন্ত্রীর ফোন ছিনতাই হয় বলে মঙ্গলবার (০১ জুন) দুপুরে সংবাদমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন কাফরুল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সেলিমুজ্জামান।

এম এ মান্নান বলেন, কী ঘটেছে তা বুঝতেও কয়েক সেকেন্ড কেটে যায়। এরপর গাড়িতে থাকা গানম্যানকে বলি আমার মোবাইল নিয়ে গেল। তবে গাড়ি থামিয়ে গানম্যান ওই ছিনতাইকারীর পিছু নিলেও তাকে আর ধরতে পারেনি। বিষয়টি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে জানিয়েছেন বলেও জানান পরিকল্পনামন্ত্রী।

কাফরুল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সেলিমুজ্জামান বলেন, বিজয় স্মরণীতে মন্ত্রীর গাড়ি জ্যামে আটকে ছিলো। গাড়ির গ্লাস নামিয়ে ফোনে কথা বলা অবস্থায় তার ফোনটি ছিনিয়ে নিয়ে যায় এক ছিনতাইকারী। মন্ত্রীর পিএস ছিনতাইয়ে ঘটনায় মামলা করেছেন।


আরও খবর

সরকারি শূন্যপদ ৩ লাখ ৮০ হাজার

মঙ্গলবার ১৫ জুন ২০২১




নারায়ণগঞ্জে পুলিশ বক্সের সামনে থেকে ‘রিমোট কন্ট্রোল চালিত’ বোমা উদ্ধার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৮ মে ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১৩ জুন ২০২১ | ১০১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের সাইনবোর্ড এলাকায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের উত্তর পাশে ট্রাফিক পুলিশ বক্সের সামনে রিমোট কন্ট্রোল চালিত একটি শক্তিশালী তাজা বোমা পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার হয়েছে।

সোমবার বিকেল চারটায় বোমাটি উদ্ধারের পর সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় বোমাটি বিস্ফোরণ ঘটিয়ে নিস্ক্রিয় করে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটের বোমা বিশেষজ্ঞ দল। বোমাটি সাদা রঙের একটি বাজারের ব্যাগের ভেতরে পলিথিন ও লাল স্কচটেপ দিয়ে মোড়ানো অবস্থায় পড়ে ছিল। প্রায় আট ইঞ্চি দৈর্ঘ্যের এই বোমাটি তৈরা করা হয়েছে লাইটারে গ্যাস রিফিল করার কাজে ব্যবহৃত ছোট আকারের স্প্রে সিলিন্ডার দিয়ে।

পুলিশ জানায়, বিকেল চারটায় পুলিশ বক্সে ডিউটিরত জেলা ট্রাফিক পুলিশের সার্জেন্ট আসিফ হোসেন গেটের সামনে সাদা রঙের একটি বাজারের ব্যাগ পড়ে থাকতে দেখেন। যার ভেতরে বোমাসদৃশ বস্তু দেখে অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা আতংকিত হয়ে পড়েন। এসময় সার্জেন্ট আসিফ হোসেন তার সহকর্মী সাত আটজন পুলিশ সদস্যদের সাথে নিয়ে পুলিশ বক্স থেকে বাইরে বের হয়ে নিরাপদ স্থানে সরে যান। পরে তিনি বিষয়টি জেলা পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জানালে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের বোম্ব ডিস্পোজাল ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরীক্ষা নীরিক্ষা শুরু করেন। এসময় জেলা পুলিশ ও র‌্যাবসহ আইন শৃংখলা বাহিনীর বিভিন্ন সংস্থা ঘটনাস্থল ঘিরে রাখে।

মহাসড়কের এক পাশে সব ধরণের যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দিয়ে আশপাশের লোকজনকে নিরাপদ দূরত্বে সরিয়ে দেয়া হয়। এরপর রোবটের মাধ্যমে ব্যাগের ভেতর থেকে পলিথিনে মোড়ানো বস্তুটি বের করে আনা হলে বোমা বিশেষজ্ঞ দল বিভিন্ন ডিভাইস দিয়ে পরীক্ষা করে বোমা বলে নিশ্চিত হন। সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় ঘটনাস্থলেই বিকট শব্দে বোমাটি বিস্ফোরণ ঘটিয়ে নিষ্ক্রিয় করা হয়।

ঘটনাস্থলে থাকা জেলা পুলিশের জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মেহেদী ইমরান সিদ্দিকী জানান, বোমাটি রিমোটের সাহায্যচালিত একটি ইম্প্রোভাইস এক্সক্লুসিভ ডিভাইস (আইইডি) বোমা। এর কার্যক্ষমতা অন্তত পঁচিশ মিটার হবে। এই দূরত্বের মধ্যে বোমাটি বিস্ফোরিত হলে ভয়াবহ ক্ষয়ক্ষতির আশংকা ছিল। তবে এটি সফলভাবে নিষ্ক্রিয় সম্পন্ন হয়েছে।

জেলা পুলিশের এই কর্মকর্তা আরো জানান, পুলিশ বক্সের সামনে বোমাটি কে বা কারা রেখে গিয়েছে সেটি শনাক্ত করতে আশপাশের সিসি ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজ পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে। জড়িতদের শনাক্ত করে আইনের আওতায় আনা হবে।

নিউজ ট্যাগ: বোমা উদ্ধার

আরও খবর



হামলা অব্যাহত রাখার ঘোষণা: বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু

প্রকাশিত:রবিবার ১৬ মে ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১৪ জুন ২০২১ | ১০৪জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

ইসরায়েলে রকেট হামলা চালানোর মধ্য দিয়ে হামাস বর্তমান সংঘাতের সূচনা করেছে বলে দাবি করে ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু বলেছেন, যতদিন প্রয়োজন গাজায় হামলা অব্যহত থাকবে। তবে এতে হতাহত যতটা কমানো যায় তার সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হবে বলে জানান তিনি।

শনিবার নেতানিয়াহু বলেন, এই সংঘাতের জন্য অপরাধবোধে ভোগার কথা তাদের, যারা আমাদের ওপর হামলার মাধ্যমে এটি শুরু করেছে, আমাদের নয়। অভিযানের মাঝামাঝি পর্যায়ে আছি আমরা, এটা শেষ হয়নি। যতদিন প্রয়োজন অভিযান অব্যহত থাকবে।

নেতানিয়াহুর এমন বক্তব্যের পর ইসরায়েলি বাহিনীর হামলার মাত্রা বেড়েছে। গাজায় হামাসপ্রধানের বাড়িতে বোমা মেরে তা উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। রোববার সকালেও ইসরায়েলি হামলায় গাজায় তিনজন নিহত হয়েছে।

গাজা থেকে হামাস ইসরায়েলের রাজধানী তেল আবিবে রকেট হামলা চালানোয় লোকজন আশ্রয়কেন্দ্রে অবস্থান নেয়।

টেলিভিশন বক্তৃতায় ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বলেন, হামাস ইসরায়েলের বেসামরিক নাগরিকদের লক্ষ্য করে হামলা চালাচ্ছে। পক্ষান্তরে আমরা সাধারণ মানুষের মৃত্যু এড়াতে বা কমাতে যা যা করা দরকার সব করছি। শুধু সন্ত্রাসীদের লক্ষ্য করেই হামলা চালানো হচ্ছে।

এদিকে সাম্প্রতিক এই সংঘাত বন্ধের আহ্বান জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন গতকাল শনিবার ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস ও ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর সঙ্গে ফোনে কথা বলেন।

অন্যদিকে, ফিলিস্তিন-ইসরায়েল ইস্যুতে আজ রোববার জাতিসংঘের নিরাপত্তা কাউন্সিলের বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে।

গত সোমবার থেকে শুরু হওয়া ইসরায়েলি হামলায় গাজায় ১৪৮ জন নিহত হয়েছে। এদের মধ্যে ৪১টি শিশু রয়েছে। অন্যদিকে ইসরায়েলে দুই শিশুসহ ১০ জন নিহতের কথা জানা গেছে।

সম্প্রতি ইসরায়েল ফিলিস্তিনের জেরুসালেমে আল জাররাহ এলাকা দখল করে নিতে চায়। এ নিয়ে সেখানকার বাসিন্দা ফিলিস্তিনিদের মধ্যে থেমে থেমে উত্তেজনা চলে আসছিল। গত ৭ মে পবিত্র মাহে রমজানের শেষ জুমা অর্থাৎ জুমাতুল বিদা আদায় করতে বিপুল সংখ্যক মুসল্লি আল-আকসা মসজিদে সমবেত হলে ইসরায়েলি বাহিনী তাদের ওপর চড়াও হয়। মসজিদে ঢুকে মুসল্লিদের লক্ষ্য করে রাবার বুলেট ও টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে ইসরায়েলি বাহিনী।

এর দুদিন পর শবে কদরেও আল-আকাসা মসজিদে ইসরায়েলি বাহিনীর সঙ্গে মুসল্লিদের সংঘর্ষ হয়। এর প্রতিবাদে গাজা সীমান্তে বিক্ষোভ শুরু হয়। পরে গত সোমবার (১০ মে) সেখানে বিমান হামলা শুরু করে ইসরায়েল।



আরও খবর



ঈদের পরেই বাড়ল করোনায় মৃত্যু ও আক্রান্ত

প্রকাশিত:রবিবার ১৬ মে ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১৩ জুন ২০২১ | ১০১জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

বিশ্বব্যাপী তাণ্ডব চালানো মহামারি করোনাভাইরাসে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন আরও ২৫ জন। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১২ হাজার ১৪৯ জন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছেন আরও ৩৬৩ জনের দেহে। দেশে এখন পর্যন্ত মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭ লাখ ৮০ হাজার ১৫৯ জনে।

করোনাভাইরাস নিয়ে রবিবার (১৬ মে) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদফতর থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৬০১ জন। এ নিয়ে মোট সুস্থ হয়েছেন ৭ লাখ ২২ হাজার ৩৬ জন। এদিন মোট করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৫ হাজার ৪৩০ জনের।

এর আগে শনিবার (১৫ মে) দেশে করোনায় ২২ জন মারা যান, আর নতুন করে শনাক্ত হয় ২৬১ জন।

এদিকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, রোববার (১৬ মে) সকাল ৮টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মারা গেছেন আরও প্রায় ১২ হাজার মানুষ। এখন পর্যন্ত বিশ্বে মোট করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৩৩ লাখ ৮৩ হাজার ২৩০ জনের এবং আক্রান্ত হয়েছেন ১৬ কোটি ৩১ লাখ ৬৫ হাজার ৫৭৩ জন। এদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৪ কোটি ১৪ লাখ ৬২ হাজার ১৪৬ জন।

করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ৩৬ লাখ ৯৫ হাজার ৯১৬ জন। মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৯৯ হাজার ৮৬৩ জনের।

নিউজ ট্যাগ: করোনায় মৃত্যু

আরও খবর



তরুণদের যুদ্ধে উদ্বুদ্ধ করতে সুন্দরী নারীদের ব্যবহার করছে ইসরায়েল

প্রকাশিত:শনিবার ২৯ মে ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১৪ জুন ২০২১ | ১০২জন দেখেছেন
নিউজ পোস্ট ডেস্ক

Image

তারা তরুণ, আবেদনময়ী, যুদ্ধে যেতে প্রস্তুত। তারা সবাই ইসরায়েল ডিফেন্স ফোর্সেসের (আইডিএফ) সদস্য। কিন্তু তাদের কাজ কার্যত হচ্ছে টিকটিকে ভিডিও পোস্ট করা। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সমর্থন আদায় এবং জাতীয়তাবাদ ছড়িয়ে দিতে এই তরুণীদের ব্যবহার করা হচ্ছে। খবর নিউইয়র্ক পোস্টের।

গাজায় নিরীহ মানুষের ওপর ১১ দিন ধরে তাণ্ডব চালানোর পর হামাসের সঙ্গে এখন যুদ্ধবিরতি পালন করছে ইসরায়েল। ওই সহিংসতায় ২৪০ জনের বেশি ফিলিস্তিনির মৃত্যু হয়েছে। মারা গেছে ১৩ ইসরায়েলিও। কিন্তু যুদ্ধবিরতির এই সময়ে অন্য এক লড়াই শুরু করেছে ইসরায়েল। দেশটির নাগরিকদের মাঝে যুদ্ধ উত্তেজনা ছড়িয়ে দিতে নারীদের ব্যবহার করছে তারা।

ইসরায়েলি হামলায় ফিলিস্তিনিদের পালিয়ে যাওয়ার দৃশ্যের বিপরীতে সম্পূর্ণ চিত্র তুলে ধরেছে আইডিএফ। তারা সামরিকপন্থী বিভিন্ন কন্টেন্ট প্রকাশ করছে। যেখানে দেখা যাচ্ছে, সামরিক পোশাক পরে গাজা সীমান্তে প্রিয়জনদের সঙ্গে দেখা করছে সৈন্যরা।

ডিউক বিশ্ববিদ্যালয়ের কালচারাল অ্যানথ্রপলজির অধ্যাপক রেবেকা স্টেইন বলেন, ইসরায়েলে সুন্দরী নারীদের সামরিক পোশাক পরিয়ে তাদের জাতীয়তাবাদের প্রতীক হিসেবে তুলে ধরার দীর্ঘ ইতিহাস রয়েছ। তিনি বলেন, নিজের ডিজিটাল প্লাটফর্মের চাহিদা অনুযায়ী নতুন পদ্ধতি ব্যবহার করছে সেনাবাহিনী।

ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর একটা বড় অংশের বয়স ১৮-২১ বছর। তাই এসব সৈন্যদের উদ্বুদ্ধ করতে এই থার্স্ট ট্রাপ ব্যবহার করছে আইডিএফ। কেননা প্রগতিশীল তরুণদের মধ্যে ফিলিস্তিনপন্থী মনোভাব থাকলেও তারা যাতে ইসরায়েলি সেনাদের প্রতি আকর্ষণ অনুভব করে সেটাই অর্জন করতে চাচ্ছে আইডিএফ।



আরও খবর